স্ত্রীর ঘুমের জন্য বিমানের ভেতর ৬ ঘণ্টা দাঁড়িয়ে স্বামী!

স্ত্রীর ঘুমের জন্য বিমানের ভেতর ৬ ঘণ্টা দাঁড়িয়ে স্বামী!

স্ত্রীর ঘুমের জন্য বিমানের ভেতর ৬ ঘণ্টা দাঁড়িয়ে স্বামী!

অনলাইন ডেস্ক

প্রিয়তমা স্ত্রীর ঘুমের জন্য বিমানের আসনে নিজে বসেননি স্বামী। আসন ধরে টানা দাঁড়িয়ে থেকেছেন দীর্ঘ ছয়ঘণ্টা। দাঁড়িয়ে দাঁড়িয়ে স্ত্রীর ঘুমন্ত মুখের দিকে তাকিয়ে থেকেছেন অপলক। এমনই একটি ছবি পোস্ট করা হয়েছে এক্সে (টুইটার)।

পোস্ট করার পর থেকেই ছবিটি ঘিরে চলছে তুমুল আলোচনা।

কোর্টনি লি জনসন নামের আইডি থেকে ছবিটি পোস্ট করা হয়। ক্যাপশনে লেখেন, এই মানুষটি টানা ছয় ঘণ্টা দাঁড়িয়ে থেকে স্ত্রীকে ঘুমাতে দিয়েছেন। এখন এটাই ভালোবাসা।

‘এই ভদ্রলোক টানা ছয় ঘণ্টা ধরে দাঁড়িয়ে আছেন। যাতে তার স্ত্রী ঘুমাতে পারে। এখন এটাই ভালোবাসা’–এর মধ্য দিয়ে ফটোগ্রাফার দেখাতে চেয়েছেন একজন সিনিয়র ভদ্রলোক দাঁড়িয়ে আছেন, যাতে বিমানের তিনটি আসনের জায়গা নিয়ে ঘুমাতে পারে তার স্ত্রী।  তবে এখন ভাইরাল হওয়া পোস্টটি মুলত ২০১৯ সালের ৬ সেপ্টেম্বরের।  

পোস্ট দেয়ার পর ছবিটিতে প্রায় ১৫ হাজার লাইক পড়েছে। কমেন্ট হয়েছে হাজারের মতো। তবে ‘এটাই এখন ভালোবাসা’–জনসনের এমন মন্তব্য নিয়ে চলছে চুলচেরা বিশ্লেষণ। এর পক্ষে-বিপক্ষে বিভক্ত হয়ে পড়েছেন এক্স ব্যবহারকারীরা। ভালোবাসা নিয়ে অনলাইনে নিজের মতামত তুলে ধরেছেন অনেকেই।

স্ত্রীর ঘুমের জন্য বিমানের ভেতর ৬ ঘণ্টা দাঁড়িয়ে স্বামী!

অনেক নেট ব্যবহারকারী জনসনের ভালোবাসার সংজ্ঞার সঙ্গে একমত হতে পারেননি। তাদের অভিমত, ভদ্রলোকের স্ত্রী একজন স্বার্থপর মানুষ। তিনি নিজে ঘুমিয়ে স্বামীকে টানা ছয় ঘণ্টা দাঁড় করিয়ে রেখেছেন। অনেকে আবার ছবিটির ভূয়সী প্রশংসা করেছেন। ভদ্রলোকের অভিব্যক্তিকে কারো কারো কাছে রোমান্টিক বলে মনে হয়েছে।

তবে এর প্রতিক্রিয়ায় বেশির ভাগ মানুষই যা লিখেছেন, তা হলো স্ত্রী তার স্বামীর কোলে মাথা রেখে ঘুমাতে পারত। কেউ কেউ স্ত্রীকে সেলফিশ উল্লেখ করে পোস্ট দিয়েছেন। ছবিটি বিস্ময় জাগিয়েছে এমন মানুষের সংখ্যাও কম নয়। তারা প্রশ্ন তুলেছেন, বিমানে একজন মানুষ কীভাবে ছয় ঘণ্টা দাঁড়িয়ে থাকতে পারে? বিমান ক্রুরা তা মানবেনই-বা কেন? ছবিটি আসল না নকল তা নিয়েও প্রশ্ন অনেকের। একজন মন্তব্য করেছেন, যা মানুষকে ভোগায় তা ভালোবাসা হতে পারে না। তবে পুরো বিষয়টি অনেকের কাছে মিষ্টি বলে মনে হয়েছে।

সূত্র: ডেইলি মেইল

news24bd.tv/aa

পাঠকপ্রিয়