‘নারী নেতৃত্ব হারাম’ বলা ইউপি চেয়ারম্যানকে অপসারণে বিক্ষোভ 

সংগৃহীত ছবি

‘নারী নেতৃত্ব হারাম’ বলা ইউপি চেয়ারম্যানকে অপসারণে বিক্ষোভ 

বাগেরহাট প্রতিনিধি

‘নারী নেতৃত্ব হারাম’ বলে বক্তব্য দেয়া বাগেরহাটে মোংলা উপজেলার সুন্দরবন ইউপি চেয়ারম্যান ইকরাম ইজারাদারকে অপসারণ ও গ্রেপ্তারের দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল শেষে মানববন্ধন করেছেন কয়েক হাজার নারী।

আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে পৌরসভার সামনের সড়কে এ কর্মসূচি পালন করেন মোংলা উপজেলা নারী সমাজ। এসময় মোংলা পোর্ট পৌরসভার বিভিন্ন ওয়ার্ড ও উপজেলার ছয়টি ইউনিয়ন থেকে আসা কয়েক হাজার নারী এ কর্মসূচিতে অংশ নেন।

মানববন্ধনে নারী নেত্রীরা বলেন, এদেশের প্রধানমন্ত্রী নারী, স্পিকার নারী, রয়েছে নারী সংসদ সদস্যও।

সরকারি সামরিক-বেসামরিক বাহিনীসহ দেশের নানা প্রতিষ্ঠানের বিভিন্ন পদেও রয়েছেন নারীরা। বর্তমান সরকার সর্বক্ষেত্রে নারীদের অগ্রাধিকার দিয়ে তাদের অধিকার সংরক্ষণ ও প্রতিষ্ঠায় কাজ করে যাচ্ছেন। সেখানে আওয়ামী লীগ সভানেত্রীর কাছ থেকে নৌকার প্রতীক নিয়ে বিনাভোটে ইউপি মোংলা উপজেলার সুন্দরবন ইউনিয়নের চেয়ারম্যান হয়ে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. ইদ্রিস আলীর ঈগল প্রতীকের নির্বাচনী পথসভায় তারই (প্রার্থীর) ভাতিজা ইকরাম ইজারাদার ‘নারী নেতৃত্ব হারাম, আমরা গজবের মধ্যে নিমজ্জিত রয়েছি। নারীরা সমাজনীতি আর রাজনীতির কি বুঝেন’ এমন বক্তব্য রাখেন।

ইউপি চেয়ারম্যান ইকরাম ইজারদার রাষ্ট্র ও সংবিধান বিরোধী এমন বক্তব্য দিয়ে দেশের পুরো নারী সমাজকে অপমান ও অসন্মান করেছেন। তাই রাষ্ট্রের সংবিধান লঙ্ঘন করায় ইকরাম ইজারদারকে ইউপি চেয়ারম্যান পদ থেকে দ্রুত অপসারণ, গ্রেপ্তার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান তারা।

মানববন্ধনে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন মোংলা উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান ও পৌর মহিলা আওয়ামী লীগের সভানেত্রী কামরুন নাহার হাই, পৌর কাউন্সিলর জাহানারা চানু, শিউলি বেগম, জোহরা বেগম, সোনাইলতলা ইউপি চেয়ারম্যান নাজরিনা বেগম, উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের নেত্রী রাহিলা খানম বেবি ও পৌর মহিলা আওয়ামী লীগের নেত্রী রোজনীন অন্তরা।

news24bd.tv/SHS