মানবদেহে ক্যানসার নির্মূলকারী কোষের সন্ধান

সংগৃহীত ছবি

মানবদেহে ক্যানসার নির্মূলকারী কোষের সন্ধান

অনলাইন ডেস্ক

মানবদেহে নতুন একটি কোষ আবিষ্কার করেছেন গবেষকরা। কোষটিকে ‘ইমিউন সেল’ তথা রোগ প্রতিরোধী কোষ বলে ডাকা হচ্ছে। কোষটি সাধারণত অ্যালার্জি ও অন্যান্য রোগের বিরুদ্ধে প্রতিরোধমূলক কর্মকাণ্ডের জন্য পরিচিত হলেও, ক্যানসারের বিরুদ্ধেও লড়াই করতে সক্ষম বলে দাবি গবেষকদের।

ইঁদুরের ওপর পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে এই তথ্য পেয়েছেন মার্কিন গবেষকরা।

বিজ্ঞানবিষয়ক সাময়িকী ‘সেলে’ এই গবেষণার তথ্য প্রকাশ করা হয়েছে। হিউম্যান টাইপ-২ ইনন্যাট লাইমফোইড সেলস (আইএলসি২এস) নামের এই ইমিউন কোষটি মানবদেহের বাইরেও প্রসারিত করা যায় এবং এটি টিউমারের টিকে থাকার সক্ষমতাকে পরাজিত এবং ক্যানসার কোষকে নির্মূল করতে পারে।

‘কোষ পরিবারে আমরা আইএলসি-২ কোষকে নতুন সদস্য হিসেবে চিহ্নিত করেছি, যেটি যেকোনো ধরনের ক্যানসারকে সরাসরি নির্মূলে সক্ষম; যার মধ্যে রক্তের ক্যানসার এবং সোলিড টিউমারও রয়েছে’ এমন মন্তব্য করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ার সিটি অব হোপের হেমাটোলোজি অ্যান্ড হেমাটোপোয়েটিক সেল ট্রান্সপ্ল্যানটেশন বিভাগের প্রফেসর জিয়ানহুয়া ইউ।

এই আবিষ্কারের ফলে ইমিউনোথেরাপি বা রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধির চিকিৎসায় উল্লেখযোগ্য অগ্রগতির আশা দেখছেন গবেষকরা।

সিটি অব হোপের হেমাটোলজি অ্যান্ড হেমাটোপয়েটিক সেল ট্রান্সপ্লান্টেশন বিভাগের অধ্যাপক ও গবেষণার সিনিয়র লেখক জিয়ানহুয়া ইউ বলেন, ‘সিটি অব হোপের গবেষণা দল মানবদেহে আইএলসি২ কোষ চিহ্নিত করেছে। কোষ পরিবারের নতুন সদস্য এই কোষটি যেকোনো ধরনের ক্যানসার নির্মূলে সক্ষম। যার মধ্যে রক্তের ক্যানসার ও শক্ত টিউমার রয়েছে। ’

তিনি আরও বলেন, ‘ভবিষ্যতে এই কোষ উৎপাদন, ফ্রিজে সংরক্ষণ ও প্রয়োজনমতো রোগীর দেহে প্রয়োগ করা যাবে। টি-সেলভিত্তিক থেরাপি যেমন সিএআর টি সেল যেখানে রোগীর নিজস্ব কোষ ব্যবহারের প্রয়োজন হয়, তবে আইএলসি২এস কোষের ক্ষেত্রে এমনটি প্রয়োজন হবে না। এই কোষ শারীরিকভাবে সুস্থ যে কোনো দাতার কাছ থেকে সংগ্রহ করা যাবে। ’

news24bd.tv/DHL