১৫ ইসরায়েলি সেনাকে হত্যার দাবি হামাস সামরিক শাখার

সংগৃহীত ছবি

১৫ ইসরায়েলি সেনাকে হত্যার দাবি হামাস সামরিক শাখার

অনলাইন ডেস্ক

গাজায় মোটেও স্বস্তিতে নেই ইসরায়েলি বাহিনী। থেমে থেমে গাজার প্রতিরোধ যোদ্ধারা ইসরায়েলি সেনাবাহিনীর ওপর আক্রমণ অব্যাহত রেখেছে। পরিস্থিতি খারাপ দেখে গাজায় হামাসের হাতে বন্দী থাকা ইসরায়েলি নাগরিকদের উদ্ধারে যুক্তরাষ্ট্রসহ বহু পক্ষ সমঝোতায় যাওয়ার চেষ্টা করছে। হামাসের প্রধান শর্ত হচ্ছে গাজা যুদ্ধ পুরোপুরি বন্ধ করতে হবে।

সেই সঙ্গে অবরুদ্ধ উপত্যকাটি থেকে সম্পূর্ণরূপে ইসরায়েলি সেনাদের প্রত্যাহার করতে হবে। তবে সাময়িক যুদ্ধবিরতি চাইলেও পুরোপুরি সংঘাত বন্ধ করতে চায় না ইসরায়েল।

এর মাঝেই হামাসের সামরিক শাখা আল কাসাম রোববার জানিয়েছে, তাদের যোদ্ধারা ইসরায়েলের ১৫ সেনাকে খুব কাছ থেকে হামলা করে হত্যা করেছে। কাসামের মুখপাত্র আবু ওবায়দা বলেছেন, গত কয়েক দিনে কাসাম যোদ্ধারা ইসরায়েলের ৪৩টি সমরযান পুরোপুরি বা আংশিক ধ্বংস করেছে।

 

ওবায়দা আরো দাবি করেছেন, পয়েন্ট ব্ল্যাঙ্ক রেঞ্জ থেকে কাসাম যোদ্ধারা ১৫ ইসরায়েলি সেনাকে হত্যা করেছে। এছাড়াও আরো এক ইসরায়েলি সেনা কর্মকর্তা ও সাধারণ সৈন্যকে হত্যা করেছে কাসামের স্নাইপার বাহিনী।

আরও পড়ুন: গাজায় যুদ্ধে বিচ্ছিন্ন হওয়া মা-বাবাকে খুঁজে বেড়াচ্ছে ১৭ হাজার শিশু

কাসাম মুখপাত্র জানিয়েছেন, ইসরায়েলি সেনাদের হতাহত করতে গেল কয়েকদিনে কাসাম ব্রিগেড ১৭টি সামরিক অভিযান চালিয়েছে। এছাড়াও ইসরায়েল লক্ষ্য করে বেশ কয়েকটি রকেট হামলা চালানো হয়েছে।

আবু ওবায়দা আরো জানিয়েছেন, কাসাম ব্রিগেডের যোদ্ধারা একটি টানেলের প্রবেশ মুখেও ইসরায়েলি সেনাদের একটি দলকে উড়িয়ে দিয়েছে। এইসব অভিযানে চারটি ইসরায়েলি ড্রোন জব্দ করেছে হামাস যোদ্ধারা। তেল আবিব লক্ষ্য করে কয়েক ঝাঁক রকেট হামলা করার কথাও জানান আবু ওবায়দা।  

সূত্র: মেহর নিউজ

news24bd.tv/DHL

পাঠকপ্রিয়