কুমিল্লায় বিএনপির দুই গ্রুপের গোলাগুলির ঘটনায় মামলা 

কুমিল্লায় বিএনপির দুই গ্রুপের গোলাগুলির ঘটনায় মামলা 

কুমিল্লা প্রতিনিধি:

কুমিল্লা নগরের লাকসাম রোডের রামঘাটলা পৌর মার্কেটের সামনে থেকে ঈশ্বরপাঠশালা গেইট পর্যন্ত ১০ থেকে ১২ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছোড়ে অস্ত্রের মহড়া দিয়ে বিপরীত পাশের ভিক্টোরিয়া কলেজের গলি দিয়ে চলে যান বিএনপির নেতাকর্মীরা। এ ঘটনায় ৮জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

ঘটনাস্থল থেকে ককটেল বিস্ফারণের খোসাসহ ৩ রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হলেও এখনও কাউকে আটক করতে পারেনি পুলিশ।  

কুমিল্লা মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক উদবাতুল বারী আবু গ্রুপের সঙ্গে সদস্য সচিব ইউসুফ মোল্লা টিপুর সমর্থকদের মধ্যে এ সংঘর্ঘের ঘটনা ঘটে।

রোববার রাত ১২ টার দিকে। এ সময় নগরের ২২ নম্বর ওয়ার্ড ছাত্রদলের আহ্বায়ক ফখরুল ইসলাম তুহিন ও ছাত্রদলের অন্তর দুজন গুলিবিদ্ধ হয়। সবুজসহ তিনজন আহত হয়েছে। আহতরা আবু গ্রুপের অনুসারী।
স্থানীয়রা আহতদেরকে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে সিসিটিভির ফুটেজ সংগ্রহ করছে।  

কোতয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফিরোজ হোসেন তথ্য জানান, আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে কুমিল্লা শহরের রামঘাটলা পৌর মার্কেটের সামনে একটি মাইক্রোবাস থেকে ১০ থেকে ১২ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছোড়ে কয়েকজন যুবক। বিএনপির দুই গ্রুপের মধ্যে গোলাগুলি ও ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। এ সময় অস্ত্রের মহড়া দিয়ে তারা বিপরীত পাশের ভিক্টোরিয়া কলেজের গলি দিয়ে চলে যায়। এ সময় বিএনপির দুটি গ্রুপে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে।  খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।  

এ বিষয়ে কুমিল্লার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) মো. কামরান হোসেন জানান, দলীয় অভ্যন্তরীণ বিষয় নিয়ে নগরের টাওয়ার হসপিটালসহ সংলগ্ন এলাকায় বিএনপির দুই গ্রুপের মধ্যে ককটেল বিস্ফোরণ ও গোলাগুলির  ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় কামরুল ইসলাম নামের একব্যাক্তি বাদী হয়ে ৮জনের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করেছেন। ঘটনার পরপরই জড়িতদের গ্রেপ্তারে পুলিশ কাজ করছে।

news24bd.tv/কেআই

এই রকম আরও টপিক