মঙ্গলবার, ১২ নভেম্বর, ২০১৯ | আপডেট ০৪ মিনিট আগে

‘তিনি চিফ জাস্টিসের চাইতেও মহাচিফ জাস্টিস’

নিউজ টোয়েন্টিফোর ডেস্ক

‘তিনি চিফ জাস্টিসের চাইতেও মহাচিফ জাস্টিস’

চিকিৎসার নামে খালেদা জিয়াকে স্লো পয়জনিং করা হচ্ছে কিনা তা নিয়ে শঙ্কা প্রকাশ করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। বলেছেন, সুস্থ অবস্থায় খালেদা জিয়া কারাগারে গিয়েছিলেন। কিন্তু বর্তমানে তিনি মারাত্মক অসুস্থ, তাকে হুইলচেয়ার ব্যবহার করতে হচ্ছে।

বুধবার দুপুরে নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে শবে মিরাজ উপলক্ষে আলোচনাসভা ও দোয়া মাহফিলে এ আশঙ্কার কথা বলেন রিজভী।

রুহুল কবির রিজভী বলেন, আমাদের ভয় হচ্ছে সরকার কারাগারের মধ্যে তাকে চিকিৎসার নামে অন্য কিছু করছে কিনা? তাকে স্লো পয়জনিং করা হচ্ছে কিনা তা নিয়ে জনমনে প্রশ্ন দেখা দিয়েছে। প্রশ্ন উঠেছে- তিনি গুরুতর অসুস্থ হলেন কীভাবে?

‘বেগম জিয়ার কোনো উন্নত চিকিৎসা নেই। বেগম জিয়াকে সুচিকিৎসার বন্দোবস্ত করার এতবার দাবি করা হয়েছে। একজন মানুষকে মৃত্যুর মুখোমুখি ঠেলে দিয়েও দেশের ডাক্তাররা নিজেদের পদ ধরে রাখার জন্য শেখ হাসিনার ভাষায় কথা বলছেন।’

আওয়ামী লীগের কঠিন সমালোচনা করে রিজভী বলেন, একটি আধুনিক গণতান্ত্রিক রাষ্ট্রে আইন, বিচার এবং নির্বাহী বিভাগের মধ্যে ক্ষমতার ভারসাম্য আছে। তবে বাংলাদেশে এ ভারসাম্য ভেঙে দিয়েছেন শেখ হাসিনা। তিনি এগুলো কিছুই মানেন না। কারণ তিনি হচ্ছেন সুপ্রিমকোর্টের চিফ জাস্টিসের চাইতেও মহাচিফ জাস্টিস। তাকে যারা ক্ষমতায় রেখেছেন যারা মিডনাইট নির্বাচন করিয়ে দিয়েছেন, যারা মধ্যরাতে নির্বাচনে আবারও ক্ষমতা এনেছেন তাদের ক্ষমতা অপরিসীম।

গত সোমবার কারাবন্দি খালেদা জিয়াকে চিকিৎসার জন্য বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ) ভর্তি করা হয়েছে। এদিন দুপুর ১২টা ৪১ মিনিটে কড়া নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে তাকে বিএসএমএমইউতে নেওয়া হয়। পরে হুইলচেয়ারে করে বিএনপি চেয়ারপারসনকে কেবিন ব্লকের পাঁচতলায় নেওয়া হয়। হাসপাতালে তার জন্য ৬২১-৬২২ নম্বর কেবিন বরাদ্দ রয়েছে।

গত এক বছরের বেশি সময় ধরে দুর্নীতি মামলায় পুরান ঢাকার সাবেক কেন্দ্রীয় কারাগারে বিশেষ সেলে বন্দি রয়েছেন খালেদা জিয়া। এর আগেও তিনি বিএসএমএমইউতে চিকিৎসা নিয়েছেন।

(নিউজ টোয়েন্টিফোর/তৌহিদ)

মন্তব্য