রবিবার, ৮ ডিসেম্বর, ২০১৯ | আপডেট ৩১ মিনিট আগে

পিরোজপুরে নিজের শিশু বিক্রি করলেন দরিদ্র মা 

ইমন চৌধুরী, পিরোজপুর

পিরোজপুরে নিজের শিশু বিক্রি করলেন দরিদ্র মা 

অতি দরিদ্র হওয়ায় এক মা তার সদ্য ভূমিষ্ঠ কন্যা শিশুকে মাত্র ৫ হাজার টাকায় বিক্রি করে দিয়েছে। এ ঘটনাটি ঘটেছে সোমবার পিরোজপুর সদর হাসপাতালে। নিজের নবজাতক কন্যা শিশুকে অপরের কোলে তুলে দিয়ে বিদায় নেন মা সেলিনা বেগম।
 
নবজাতক কিনে নেয়া পরিবার ও হাসপাতালে কর্তব্যরত নার্সদের কাছ থেকে জানা যায়, বাগেরহাট জেলার স্বামী পরিত্যক্তা ৬ সন্তানের জননী সেলিনা বেগম সন্তান সম্ভাবা হয়ে রোববার পিরোজপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি হন। রোববার রাতে হাসপাতালে প্রসব করেন এক কন্যা সন্তান।

এ সময় সেলিনা বেগমের সাথে পরিচয় হয় হাসপাতালে পাশের বেডে চিকিৎসাধীন এক রোগীর পরিবারের। চরম দরিদ্রতার মধ্যে বাস করা সেলিনা বেগম তার ৬ কন্যা সন্তান নিয়ে অনাহারে অর্ধাহারে জীবন পার করার মধ্যে নতুন সদ্য ভূমিষ্ঠ সন্তান নিয়ে তার সমস্যার কথা বলেন ওই পরিবাবেরর কাছে।

ওই পরিবারের এক মেয়ে নিঃসন্তান থাকায় তারা ৫ হাজার টাকার বিনিময় রেখে দেন সেলিনা বেগমের নবজাতক সন্তানকে। সন্তানকে তাদের কাছে দিয়ে হাসপাতাল থেকে চলে যান সেলিনা বেগম।

পিরোজপুর সিভিল সার্জন মোঃ ফারুক আলম জানান, হাসপাতালে এক মা তার শিশুকে বিক্রি করেছে এমন অভিযোগ পাওয়ার সাথে সাথে পুলিশ ও সমাজসেবা কর্মকর্তাকে বিষয়টি অবহিত করি। বাচ্চাটিকে তাদের দায়িত্বে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। 

পিরোজপুর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোল্লা আজাদ হোসেন জানান, শিশু বিক্রি হবার অভিযোগ শুনে পুলিশ হাসপাতালে যায়। পরবর্তীতে আদালতের মাধ্যমে বিষয়টি সুরাহা করা হবে। সদ্য জন্ম নেওয়া শিশুটি নিরাপদ স্থানে বেড়ে উঠবে এমনটাই আশা সকলের।


(নিউজ টোয়েন্টিফোর/কামরুল)
 

মন্তব্য