সোমবার, ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ | আপডেট ৩৯ মিনিট আগে

পৃথক দুটি হত্যা মামলায় ৮ জনের মৃত্যুদণ্ড 

নিউজ টোয়েন্টিফোর ডেস্ক

পৃথক দুটি হত্যা মামলায় ৮ জনের মৃত্যুদণ্ড 

পৃথক দুটি হত্যা মামলায় ৮ জনের মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। এ সব মামলায় ৮ জনের যাবজ্জীবন ও ৬ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ডও দেয়া হয়েছে।

কুষ্টিয়া মিরপুর থানার পোড়াদহ গ্রামে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দু'পক্ষের সংঘর্ষে কৃষক নুরুল ইসলাম হত্যা ও অগ্নিকাণ্ড মামলায় দুই সহোদরসহ পাঁচজনের মৃত্যুদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত।

একই মামলায় অপর চারজনের যাবজ্জীবন ও ছয়জনের বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ডসহ প্রত্যেকের ৫০ হাজার টাকা জরিমানারও আদেশ দেন আদালত।

সোমবার বেলা ১১টায় কুষ্টিয়া নারী ও শিশু নির্যাতন দমন বিশেষ আদালতের বিচারক মুন্সী মো.মশিয়ার রহমান জনাকীর্ণ আদালতে আসামিদের উপস্থিতিতে এই রায় ঘোষণা করেন।

মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত হলেন- মিরপুর উপজেলার পোড়াদহ গ্রামের মতিয়ার রহমানের ছেলে মাসুদ (৩৮), আনছার আলীর ছেলে পারভেজ (৪৩),সৈয়দ আলীর ছেলে হবিবর রহমান (৫২),সহোদর ফজলুর রহমান (৫৫) ও সরোয়ার হোসেন (৩৯)।

যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত হলেন- বিল্লাল হোসেন (৪২), মঞ্জু (৩৪), সোহেল রানা (৩৮), রমিজ আলী (৪০), মতিয়ার রহমান (৫০) ও কবির হোসেন (৪৩)।

একই মামলায় ভুট্টো, রকি, এনায়েত ও সালামকে ৩ বছর এবং নান্নু ও ফরিদকে ৭ বছর কারাদণ্ডসহ প্রত্যেক সাজাপ্রাপ্তদের ৫০ হাজার টাকা অর্থদণ্ডে দণ্ডিত করা হয়েছে।

চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জ উপজেলার দিনমজুর রাকিব হত্যা মামলায় ৩ জনের মৃত্যুদণ্ড, প্রত্যেককে ১ লাখ টাকা অর্থদণ্ড এবং নিহতের স্ত্রীসহ ৪ জনকে যাবজ্জীবন, প্রত্যেককে ১ লাখ টাকা অর্থদণ্ড, অনাদায়ে ১ বছরের বিনাশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত।

বুধবার দুপুরে চাঁপাইনবাবগঞ্জের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মো.শওকত আলী আসামিদের উপস্থিতিতে এ রায় প্রদান করেন।

মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্তরা হল শিবগঞ্জ উপজেলার ধাইনগর ইউনিয়নের পরানপুর-বলিহারপুরের মেনশাদ মণ্ডলের ছেলে মেহেরাব হোসেন ওরফে বাচ্চু (৩৯), একই ইউনিয়নের মহেশপুরের বাহার আলীর ছেলে জামাল উদ্দীন (৪২), ছোট মহেশপুরের মৃত আবদুস সাত্তারের ছেলে হজরত আলী (৪২)।

যাবজ্জীবন দণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন- নিহত রাকিব ওরফে বাবুর স্ত্রী সায়েরা খাতুন (৩৪),আলাউদ্দীনের ছেলে মো.মোহবুল (৪৯),মো.মংলুর ছেলে মো. মিটুল (২৪), ছোট মহেশপুর গ্রামের মৃত রবুর ছেলে আসলাম (৪৬)।


(নিউজ টোয়েন্টিফোর/কামরুল)

মন্তব্য