মঙ্গলবার, ১৫ অক্টোবর, ২০১৯ | আপডেট ৪০ মিনিট আগে

নিউইয়র্কে জেলাভিত্তিক খাদ্য উৎসবে প্রবাসীদের ঢল

এনআরবি নিউজ, নিউইয়র্ক 

নিউইয়র্কে জেলাভিত্তিক খাদ্য উৎসবে প্রবাসীদের ঢল

যুক্তরাষ্ট্রের কানেকটিকাট অঙ্গরাজ্যে বাংলাদেশের বিভিন্ন জেলার ঐতিহ্যবাহী খাবার প্রদর্শনী ও প্রতিযোগিতার এক ব্যতিক্রমী উৎসব হলো ‘রসনা বিলাস খাদ্য উৎসব’ নামে। 

গত রবিবার ম্যানচেস্টারের নর্থ ওয়েস্ট্ পার্কে এ উৎসবের আয়োজন করে ‘বরিশাল কমিউনিটি অব কানেকটিকাট’। খাদ্য উৎসবে ঝলসে উঠে বাংলার প্রকৃতি ও সাথে ঈদ বাজারে হাজির হন কানেকটিকাট, নিউইয়র্ক , নিউজার্সি এবং বস্টনের প্রবাসীরা। 

জাতীয় সঙ্গীতের মাধ্যমে অনুষ্ঠানের শুভ সূচনা করা হয়। তারপর মূলমঞ্চে চলে সাংস্কৃতিক পরিবেশনা আর অন্যদিকে চলে প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণকারিদের খাবার উপস্থাপনার পর্ব। নিজ নিজ বাসা থেকে নিজ জেলার সবচেয়ে জনপ্রিয় খাবার শোভা পায় প্রতিযোগিতায়। 

এ সময় ভিন্ন এক আমেজে সকলে আন্দোলিত হন। অন্য জেলার খাবারের স্বাদ নিতে দেখা যায় প্রবীণদেরও। আর এভাবেই প্রাণের সাথে প্রাণ মিশে যায় গোটা আয়োজনে। নতুন প্রজন্মে উল্লাস পরিলক্ষিত হয় নির্মল পরিবেশের আলোকে।

দুুপুর গড়াতেই মূল মঞ্চে একে একে আসেন সংগঠনের নেতৃবৃন্দসহ ম্যানচেস্টারের মেয়র জে মর‌্যান। তিনি তার শুভেচ্ছা বক্তব্যে বাংলাদেশিদের পাশে থাকার প্রত্যয় ব্যক্ত করে বলেন, প্রবাস প্রজন্মকে বাঙালি কালচারে জড়িয়ে রাখতে এ ধরনের উদ্যোগের গুরুত্ব অপরিসীম।

উল্লেখ্য, কয়েক মাস আগে ‘বরিশাল কমিউনিটি’ আয়োজিত পিঠামেলায় প্রবাসীদের ব্যাপক সাড়া পাওয়ার পরই ঐতিহ্যবাহী আঞ্চলিক খাবার উৎসবের এ আয়োজন করা হয়। আর এ প্রস্তুতি চলে কয়েক সপ্তাহ আগে থেকেই। পশ্চিম বঙ্গের বাঙালিদের পাশাপাশি বাংলাদেশের এগিয়ে চলা নিয়ে কৌতুহলী অন্য দেশের অভিবাসীদের সাথে আমেরিকানরাও এসেছিলেন এ উৎসবে।

সকলকে স্বাগত এবং কৃতজ্ঞতা জানান আয়োজক কমিটির কনভেনর মীর সাব্বির, কো-অর্ডিনেটর মোল্লা বাহাউদ্দিন পিয়াল এবং সেক্রেটারি- আনোয়ার হোসেন। আন্তরিকতাপূর্ণ এ সহায়তা অব্যাহত থাকলে ভবিষ্যতে আরো ব্যাপক আয়োজনে এ খাদ্য উৎসব আয়োজন করার অঙ্গীকার করেন সকলে।

বেলা ১১টা থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত চলা অনুষ্ঠানে ছিল নানা পর্ব। খাদ্যের স্টলের পাশাপাশি ঈদ উপলক্ষে কেনাকাটাও চলে শাড়ি-গহনাসহ নানা পণ্যের স্টলে। মেলা উপলক্ষে বিশেষ মূল্যহ্রাস থাকায় গৃহিণীরাও উৎফুল্ল। 

উৎসবে বিশেষ অতিথি বাংলাদেশ থেকে আসা প্রকৃতি ও জীবন ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান ‘প্রকৃতি বন্ধু’ মুকিত মজুমদার বাবু ও রন্ধন বিশেষজ্ঞ -রান্না প্রতিযোগিতার প্রধান বিচারক কেকা ফেরদৌসীকে ক্রেস্ট দিয়ে সম্মানীত করা হয়। তারা তাদের শুভেচ্ছা বক্তব্যে মনোরম প্রাকৃতিক সৌন্দর্য্যে ঘেরা ‘রসনা বিলাস খাদ্য উৎসব’র জন্যে আয়োজকদের ধন্যবাদ জানান।

বিজয়ী সেরা ৬ রন্ধনশিল্পীকে পুরস্কার প্রদান করা হয় বিপুল করতালির মধ্যে। তারা হলেন ফারাহ হোসেন, ফাতেমাতুজজোহরা, সাবরিনা আকতার, মেরি হাওলাদার, সাফিনা রহমান, ডালিয়া রেজা। এ সময় পাশে ছিলেন অপর বিচারক নিউইয়র্ক অঞ্চলের খ্যাতনামা ‘সাগর চায়নিজ’র মালিক সামিউর রহমান এবং স্থানীয় শেফ জিলু আহমেদ।
 
আয়েশা দেওয়ান লিপি ও জলি বিশ্বাসের সঞ্চালনায় দিনব্যাপী এ অনুষ্ঠানে স্থানীয় সঙ্গীত একাডেমি, শুদ্ধস্বরের শিল্পীরা মনোমুদ্ধকর সঙ্গীত পরিবেশন করেন। এছাড়াও সঙ্গীত পরিবেশন করেন জনপ্রিয় শিল্পী রিজিয়া পারভীন, শিমুল খান, কৌশলী ইমা, লিটন গ্রেগরী, তারেক চৌধুরী।

শেষে আকর্ষনীয় র‌্যাফেল ড্র’র মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠানের সমাপ্তি ঘটে। মূল্যবান পুরস্কার জিতে নেন হেলাল, রুহুল নৌশাদ, লুনা এবং টুটুল আহমেদ।


(নিউজ টোয়েন্টিফোর/কামরুল)

মন্তব্য