শুক্রবার, ১৭ জানুয়ারি, ২০২০ | আপডেট ২০ মিনিট আগে

সুন্দরবন পরিদর্শনে আসছেন জাতিসংঘের চার সদস্য

বনের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ছুটি বাতিল

শেখ আহসানুল করিম, বাগেরহাট প্রতিনিধি

সুন্দরবন পরিদর্শনে আসছেন জাতিসংঘের চার সদস্য

জাতিসংঘের যৌথ মিশনের চার সদস্য বুধবারে সুন্দরবন পরিদর্শনে আসছেন। ফলে মঙ্গলবার থেকে সুন্দরবন বিভাগের সকল কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ছুটি বাতিল করেছে বন বিভাগ। সকল কর্মকর্তা-কর্মচারীদের স্টেশন ত্যাগ না করে ওয়ার্ল্ড হ্যারিটেজ এই বনে অবাঞ্চিত লোকজনের প্রবেশ ও সম্পদ আহরণ বন্ধে সর্বোচ্চ ভূমিকা রাখতে বলা হয়েছে।

সূত্র জানায়, জাতিসংঘের যৌথ মিশনের সদস্যরা বুধবার দুপুরে বাগেরহাটের মোংলা থেকে নৌযানে করে সুন্দরবন পরির্দশন করবেন। জাতিসংঘের শিক্ষা, বিজ্ঞান ও সংস্কৃতি সংস্থা ইউনেস্কোর এবং প্রকৃতি রক্ষার বৈশ্বিক সংগঠন আইইউসিএনের একটি যৌথ মিশনের পরিবেশবিদরা চার দিন সুন্দরবনে অবস্থান করে পরিবেশগত হুমকির মুখে থাকা বনের জীব বৈচিত্র্যের বর্তমান অবস্থা সরেজমিনে দেখবেন ও তথ্য-উপাথ্য সংগ্রহ করবেন।

জাতিসংঘের এই মিশনে রয়েছেন, ইউনেস্কোর নয়াদিল্লী অফিসের প্রোগ্রাম স্পেশালিস্ট ফর ন্যাচারাল সায়েন্স বিভাগের মিস্টার গাই ব্লক, ওয়ার্ল্ড হ্যারিটেজ সেন্টারের মিজ অ্যাকান নাকামুরা, আইইউসিএনের এলিনা অসিপভা ও এন্ড্রো ওয়াইট। এই যৌথ মিশনের সদস্যরা ৯ ডিসেম্বর এসে ১৭ ডিসেম্বর পর্যন্ত বাংলাদেশে অবস্থান করবে। বন অধিদপ্তরসহ একাধিক দায়িত্বশীল সূত্র এতথ্য নিশ্চিত করেছে।

জাতিসংঘের এই যৌথ মিশনটি সুন্দরবন পরিদর্শনের পাশাপাশি ম্যানগ্রেভ বনের আশপাশে অবস্থিত শিল্প প্রকল্প বিশেষ করে বাগেরহাটের রামপাল, বরগুনার তালতলী ও পটুয়াখালীর কলাপাড়ায় নির্মিতব্য কয়লা ভিত্তিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের প্রভাব ছাড়াও আর্ন্তজাতিক সমুদ্র বন্দর মোংলা পশুর চ্যানেল বা অন্যান্য নদী খননের ফলে সুন্দরবনের প্রাণ-প্রকৃতির উপর
প্রতিবেশগত যে বিরূপ প্রভাব পড়বে তা পর্যালোচনা ও মূল্যায়ন করবে। এই যৌথ মিশনের দেওয়া তথ্য-উপাথ্যেও উপর ভিত্তি করে জাতিসংঘের শিক্ষা, বিজ্ঞান ও সংস্কৃতি সংস্থা ইউনেস্কোর ওয়ার্ল্ড হ্যারিটেজ কমিটি সুন্দরবনের প্রাণ-প্রকৃতির উপর প্রতিবেশগত হুমকি বিষয়ে বিস্তারিত রির্পোট প্রকাশ করবে।

(নিউজ টোয়েন্টিফোর/তৌহিদ)

মন্তব্য