রবিবার, ৯ আগস্ট, ২০২০ | আপডেট ০২ ঘণ্টা ১৬ মিনিট আগে

দাম কমেছে আট নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের

অনলাইন ডেস্ক

দাম কমেছে আট নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের

এক সপ্তাহের ব্যবধানে ৮ নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের দাম কমেছে। এদের মধ্যে রয়েছে পেঁয়াজ, রসুন, তেল, পোল্ট্রি মুরগি, শুকনা মরিচ, ছোলা আদা ও চিনি। ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশের (টিসিবি) এক প্রতিবেদনে এই তথ্য উঠে এসেছে।

রাজধানীর কারওয়ান বাজারসহ বেশ কয়েকটি বাজারের পণ্যের দামের তথ্য নিয়ে এই প্রতিবেদন তৈরি করেছে প্রতিষ্ঠানটি।

গেল এক সপ্তাহে সব চেয়ে বেশি দাম কমেছে দেশি রসুনের। টিসিবির তথ্য অনুযায়ী, এক সপ্তাহে দেশি রসুনের দাম কমেছে ১০ শতাংশ। বর্তমানে দেশি রসুনের কেজি ৮০ থেকে ১০০ টাকা, যা গত সপ্তাহে ছিল ৯০ থেকে ১১০ টাকা।

দেশি রসুনের পাশাপাশি দাম কমেছে আমদানি করা রসুনের। এক সপ্তাহ আগে আমদানি করা রসুন বিক্রি করা হতো ৮০ থেকে ৯০ টাকা, যা এখন পাওয়া যাচ্ছে ৭৫ থেকে ৯০ টাকায়।

টিসিবির তথ্য অনুযায়ী, বর্তমানে প্রতি কেজি দেশি পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে ৩০ থেকে ৪০ টাকা, যা গত সপ্তাহে ছিল ৩৫ থেকে ৪০ টাকা।

এক সপ্তাহ আগে ১৪০ থেকে ১৫০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হওয়া পোল্ট্রি মুরগি এখন পাওয়া যাচ্ছে ১৩০ থেকে ১৪০ টাকায়। ৮৪ থেকে ৮৬ টাকা বিক্রি হওয়া লুজ সয়াবিন তেল এখন বিক্রি হচ্ছে ৮৩ থেকে ৮৫ টাকায়।

দাম কমার এই তালিকায় রয়েছে দেশি ও আমদানি করা শুকনা মরিচের। সপ্তাহের ব্যবধানে দেশি শুকনা মরিচের দাম কমে বিক্রি হচ্ছে ২১০ থেকে ২৬০ টাকায়। আর আমদানি করা শুকনা মরিচ বিক্রি হচ্ছে ২৪০ থেকে ৩০০ টাকা।

দেশি আদার দাম ৪ দশমিক ৩৫ শতাংশ কমে প্রতি কেজি ১০০ থেকে ১২০ টাকা বিক্রি হচ্ছে। আর আমদানি করা আদার দাম ৩ দশমিক ৫৭ শতাংশ কমে ১২০ থেকে ১৫০ টাকা কেজি বিক্রি হচ্ছে।

দাম কমেছে চিনিরও। গত এক সপ্তাহে চিনির দাম ১ দশমিক ৬৪ শতাংশ কমে ৫৫ থেকে ৬৫ টাকা বিক্রি হচ্ছে। আর ছোলার দাম ৩ দশমিক ৭০ শতাংশ কমে ৬০ থেকে ৭০ টাকা কেজি বিক্রি হচ্ছে।

নিউজ টোয়েন্টিফোর / সুরুজ আহমেদ

মন্তব্য