পাহাড়ে হাতি ও মানুষের দ্বন্দ্ব, হ্রাস পাচ্ছে জীব বৈচিত্র্য

রাঙামাটি প্রতিনিধি

পাহাড়ে হাতি ও মানুষের দ্বন্দ্ব, হ্রাস পাচ্ছে জীব বৈচিত্র্য

পাহাড় মানেই জীব বৈচিত্র্যের অন্যরকম এক রাজ্য। যেখানে থাকবে শুধুই জীব-জন্তু, পশু-পাখি। কিন্তু কালের বিবর্তনে পাহাড়ে যখন মানুষের বিচরণ ঘটলো, ঠিক তখনই বিলুপ্ত হতে শুরু হলো জীব বৈচিত্র। আর তখন থেকেই শুরু বৈচিত্র্যের সাথে মানুষের দ্বন্দ্ব। বন উজার করা পশু-পাখি শিকারসহ মানুষের নানা রকম কর্মকাণ্ডে হ্রাস পেতে শুরু করেছে নানা প্রজাতির পশু, পাখি। বন দাপিয়ে বেড়ানো দানবাকার হাতিও মানুষের অত্যাচারে এখন ক্ষুদ্ধ। 

প্রায়ই সংবাদের শিরোনাম হয় হাতির আক্রমণে মানুষের মৃত্যুর খবর আবার মানুষও হাতি হত্যা করে তাদের স্বার্থ হাছিলের জন্য। এভাবেই কখনো জীত হয় হাতির। আবার কখনো মানুষের। এভাবেই চলছে পাহাড়ের জীবন।

পার্বত্য চট্টগ্রাম দক্ষিণ বন বিভাগের তথ্য সূত্রে জানা গেছে, পার্বত্যাঞ্চলে প্রায় ৭৫ প্রজাতির স্তন্যপায়ী প্রাণী, ১০০ প্রজাতির পাখি, ৭ প্রজাতির উভয়চর প্রাণী ও ২৫ প্রজাতির সরীসৃপের অবস্থান ছিল। কিন্তু বন্যপ্রাণীদের নিরাপদ আবাসস্থল ধ্বংস হওয়ায় এই সংখ্যা ক্রমশ হ্রাস পাচ্ছে। বিশেষ করে মায়া হরিণ, সাম্বার, বানর, গয়াল, হাতি, বন্য শুকর, বন্য ছাগল, বিভিন্ন প্রজাতির পাখি। রাঙামাটির বাঘাইছড়ি, জুরাছড়ি, লংগদু, কাপ্তাই, রাজস্থলী, কাউখালী, বরকল, নানিয়ারচর ও বিলাইছড়ি এলাকায় রয়েছে বন্যহাতির আবাসস্থল। তবে কত সংখ্যক হাতি রয়েছে তার কোনো পরিসংখ্যান নেই বন বিভাগের কাছে। এসব এলাকায় মানুষের চলাচল বেড়ে যাওয়ায় ধ্বংসের পথে হাতির আবাস্থল।বন উজারের কারণে খাদ্য সংকটে এসব হাতি। যার কারণে প্রায় সময় খাদ্যের খোঁজে লোকালয়ে ঢুকে পড়ে হামলা চালায় তারা। ক্ষতি হয় ফসলের, ভাঙ্গচুর করে বসত বাড়ি আবার অনেক সময় হাতির আক্রমণে প্রাণও যায় অনেকের। আর হাতির এমন হামলায় অতিষ্ট হয়ে মানুষও বেছে নেয় ভিন্ন পথ। পেতে রাখে হাতির মরণ ফাঁদ। প্রতিবছর মানুষের পাতা ফাঁদে মারা যায় অসংখ্য হাতি।

আইইউসিএনের জরিপ বলছে, ২০০৯-২০১৯ সাল পর্যন্ত গত ১০ বছরে রাঙামাটি ও বান্দরবানে বন্য হাতি মারা গেছে ২০টি। তার মধ্যে বান্দরবানের লামা বনবিভাগ এলাকায় ১০টি, পাল্পউড বন বিভাগ এলাকায় ২টি। এছাড়া রাঙামাটিতে পার্বত্য চট্টগ্রাম দক্ষিণ বন বিভাগের এলাকায় ৫টি ও উত্তর বন বিভাগের এলাকায় ৩টি। 
আইইউসিএনের জরিপে আরও বলা হয়, হাতিদের মধ্যে দু’টি আলাদা শ্রেণী রয়েছে। একটি হলো আবাসিক। অন্যটি অনাবাসিক। আবাসিক হাতিগুলো বাংলাদেশে থাকে। আর অনাবাসিক হাতিগুলো পার্শ্ববর্তী দেশ ভারত এবং মায়ানমার থেকে বাংলাদেশে প্রবেশ করে এবং কিছু সময় অবস্থান করে আবার চলে যায়। তবে পার্বত্য চট্টগ্রামের হাতিগুলো বেশির ভাগ স্থায়ী। আইইউসিএন ২০১৫-১৬সালের জরিপে বাংলাদেশের ১২টি এলাকাকে হাতির করিডোর হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে। করিডোরগুলোর মধ্যে রয়েছে- কক্সবাজার দক্ষিণ বন বিভাগের অধীনে ৩টি, কক্সবাজার উত্তর বন বিভাগের অধীনে ৫টি এবং চট্টগ্রাম দক্ষিণ বন বিভাগের অধীনে ৪টি। 
গুরুত্বপূর্ণ এসব হাতির করিডোরগুলোতে বন উজার করে মানুষের বসতি নির্মাণ করায় হাতি হারাচ্ছে তাদের বাসস্থান।  
পার্বত্য চট্টগ্রাম দক্ষিন বন-বিভাগের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা মো. রফিকুজ্জামান শাহ বলেন, রাঙামাটি কাপ্তাই উপজেলা হচ্ছে হাতির গুরুত্বপূর্ণ করিডোর। এই এলাকায় প্রায় ৫৫টি হাতি রয়েছে। গুরুত্বপূর্ণ এই করিডোরগুলোতে মানুষ বর্তমানে পাহাড় কেটে বসতি নির্মাণ করছে। একই সাথে বন উজারের কারণে খাবার সংকটে পড়ছে হাতি। হাতি মানুষের সংঘর্ষের বড় কারণ হাতি চলাচলে মানুষের বসতি। তাই প্রায় সময় পাহাড়ে বন্যহাতির তাণ্ডবে মানুষের ফসল ও বাড়ি ঘর ক্ষতিগ্রন্ত হচ্ছে। আবার কোথাও কোথাও মানুষের জন্য হাতির মৃত্যু হচ্ছে। এসব বিষয়ে মানুষকে সচেতন করতে কাজ করছে বন বিভাগ।

নিউজ টোয়েন্টিফোর / সুরুজ আহমেদ

পরবর্তী খবর

ঝুম বৃষ্টিতে ভিজলো রাজধানী

নিজস্ব প্রতিবেদক

ঝুম বৃষ্টিতে ভিজলো রাজধানী

ক’দিন ধরেই বৃষ্টি নামি নামি করছিল রাজধানী ঢাকার আকাশে। এরমধ্যে ভোর বা ভরদুপুরে হুট করে এক পশলা বৃষ্টি ঝরলেও তাতে তাপদাহ কমছিল না কিছুতেই।

অবশেষে মঙ্গলবার (১১ মে) ভোরে রাজধানীকে ভিজিয়ে দিলো ঝুম বৃষ্টি। ভোর সোয়া পাঁচটার দিকে বৃষ্টি শুরু হয়। বৃষ্টির পাশাপাশি বয়ে গেছে ঝড়ো হাওয়া।

ভ্যাপসা গরমের পর প্রায় ৪৫ মিনিটের এই বৃষ্টি নগর জীবনে স্বস্তি নিয়ে আসে।  তুমুল বৃষ্টিপাতের কারণে আলোর স্বল্পতায় হেডলাইট জ্বালিয়ে চলতে দেখা যায় যানবাহনকে। অনেক এলাকায় সড়কে জমেছে পানি।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

উত্তরাঞ্চলে তীব্র কালবৈশাখীর আশঙ্কা, হুঁশিয়ারি সংকেত

অনলাইন ডেস্ক

উত্তরাঞ্চলে তীব্র কালবৈশাখীর আশঙ্কা, হুঁশিয়ারি সংকেত

দেশের উত্তরাঞ্চলে তীব্র কালবৈশাখী ঝড় হতে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। তাই এসব এলাকার নদীবন্দরগুলোকে দুই নম্বর সতর্কতা সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে। এছাড়া অন্যান্য এলাকার নদীবন্দরগুলোকে এক নম্বর হুঁশিয়ারি সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।

সোমবার (১০ মে) রাতে এক পূর্বাভাসে এমন তথ্য জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, রংপুর, দিনাজপুর, বগুড়া, ময়মনসিংহ অঞ্চলের উপর দিয়ে ঘণ্টায় ৬০ থেকে ৮০ কিলোমিটার বেগে পশ্চিম অথবা উত্তর-পশ্চিম দিক থেকে অস্থায়ীভাবে বজ্রসহ বৃষ্টির সঙ্গে ঝড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে। তাই এসব এলাকার নদীবন্দরগুলোকে দুই নম্বর সতর্কতা সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।

এছাড়া রাজশাহী, পাবনা, যশোর, কুষ্টিয়া, ঢাকা, ফরিদপুর, খুলনা, বরিশাল, পটুয়াখালী, নোয়াখালী, কুমিল্লা, চট্টগ্রাম এবং কক্সবাজারের উপর দিয়ে পশ্চিম অথবা উত্তর-পশ্চিম দিকে অস্থায়ীভাবে দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়া আকারে ৪৫ থেকে ৬০ কিমি বেগে ঝড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে। তাই এসব এলাকার নদীবন্দরগুলোকে এক নম্বর হুঁশিয়ারি সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।

আবহাওয়াবিদ মো. আরিফ হোসেন গণমাধ্যমকে জানান, বর্তমানে লঘুচাপের বর্ধিতাংশ পশ্চিমবঙ্গ ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে।

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

২৪ ঘণ্টায় দেশের যে সব অঞ্চলে ঝড়-বৃষ্টির সম্ভাবনা

অনলাইন ডেস্ক

২৪ ঘণ্টায় দেশের যে সব অঞ্চলে ঝড়-বৃষ্টির সম্ভাবনা

দেশে আজ রোববার (৯ মে) সকাল থেকে মেঘলা আবহাওয়া বিরাজমান ছিল। সকাল গড়িয়ে দুপুরে বেশ কিছু জায়গায় বৃষ্টি হতে পারে। পরবর্তী ২৪ ঘণ্টায়ও দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে ঝড়-বৃষ্টি হতে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদফতর।

রোববার (০৯ মে) সন্ধ্যা ৬টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার পূর্বাভাসে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, রংপুর, রাজশাহী, ময়মনসিংহ, সিলেট, ঢাকা, বরিশাল, খুলনা ও চট্টগ্রাম বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা/ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি/বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে।

তাপমাত্রার পূর্বাভাসে বলা হয় সারা দেশে দিন ও রাতের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকবে।

এ সময় ঢাকায় পশ্চিম/দক্ষিণ-পশ্চিম দিক থেকে ঘণ্টায় বাতাসের গতিবেগ থাকবে ১০ থেকে ১৫ কিলোমিটার, অস্থায়ীভাবে দমকায় ঘণ্টায় ৪০ থেকে ৫০ কিলোমিটারে ওঠে যেতে পারে বলে আবহাওয়ার পূর্বাভাসে জানানো হয়।

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

সারা দেশে আজ ঝড়বৃষ্টির পূর্বাভাস

অনলাইন ডেস্ক

সারা দেশে আজ ঝড়বৃষ্টির পূর্বাভাস

দেশের বিভিন্ন স্থানে দমকা বা ঝোড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি বা বজ্র বৃষ্টিপাতের পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া অফিস। আগামী ৪৮ ঘণ্টায় সারাদেশে বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টিপাত অব্যাহত থাকতে পারে বলেও আভাস দেওয়া হয়েছে।

আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, এ সময়ে আবহাওয়ার কিছু পরিবর্তন হতে পারে। রংপুর, রাজশাহী, ময়মনসিংহ, সিলেট, ঢাকা, খুলনা ও চট্টগ্রাম বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় এবং বরিশাল বিভাগের দু’এক জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা বা ঝোড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে।


অবশেষে করোনামুক্ত হলেন খালেদা জিয়া

পৃথিবীতে আছড়ে পড়তে যাচ্ছে চীনা রকেট, দেখা যাচ্ছে লাইভে

পবিত্র শবে কদর আজ

কাবুলে স্কুলের পাশে বোমা বিস্ফোরণে নিহত ৫৫


পূর্বাভাসে আরও বলা হয়েছে, এ সময়ে আবহাওয়ার কিছু পরিবর্তন হতে পারে। এ ছাড়া সারা দেশে দিন এবং রাতের তাপমাত্রা অপরিবর্তিত থাকতে পারে।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

দেশের ৮ বিভাগেই ঝড়বৃষ্টির পূর্বাভাস

নিজস্ব প্রতিবেদক

দেশের ৮ বিভাগেই ঝড়বৃষ্টির পূর্বাভাস

দেশের আট বিভাগের কিছু কিছু অঞ্চলে অস্থায়ীভাবে দমকা অথবা ঝোড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। 

এছাড়া সপ্তাহের মাঝামাঝি সময়ে সারা দেশে বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টিপাত শুরু হতে পারে এবং তা অব্যাহত থাকতে পারে বলে পূর্বাভাসে বলা হয়েছে। 

শনিবার (৮ মে) সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত আবহাওয়ার পূর্বাভাসে এ তথ্য জানিয়েছে আরহাওয়া অধিদপ্তর।

পূর্বাভাসে বলা হয়, ময়মনসিংহ, সিলেট, চট্টগ্রাম, ঢাকা, খুলনা, বরিশাল, রাজশাহী ও রংপুর বিভাগের কিছু জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা বা ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সপ্তাহের মাঝামাঝি সারাদেশে বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টিপাত শুরু হতে পারে এবং তা অব্যাহত থাকতে পারে।


নাটোরে বৃদ্ধ দম্পতিকে পিটিয়ে হত্যা

মালদ্বীপের সাবেক প্রেসিডেন্ট নাশিদের অবস্থা এখনও সংকটাপন্ন

নারায়ণগ‌ঞ্জের মে‌রিনা লন্ড‌নের অ্যাসেম্বলি মেম্বার নির্বাচিত

আজ পঁচিশে বৈশাখ, কবিগুরুর জন্মদিন


আবহাওয়ার অফিস জানায়, লঘুচাপের বাড়তি অংশ পশ্চিমবঙ্গ ও এর কাছাকাছি অবস্থান করছে। শনি (৮ মে) ও রোববার (৯ মেত) এই দুইদিন আবহাওয়ার পরিবর্তনের সম্ভাবনা নেই।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর