‘আমাজনের আগুন’কে মিথ্যা বলছেন ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট

অনলাইন ডেস্ক

‘আমাজনের আগুন’কে মিথ্যা বলছেন ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট

ব্রাজিল কেন্দ্রীয় সংরক্ষিত বনাঞ্চলে গত বছরের একই সময়ের তুলনায় এবার দাবানলের সংখ্যা ৮১ শতাংশ বেড়েছে। দেশটির সরকারের দেওয়া তথ্য বিশ্লেষণ করেছে গ্রিনপিস।

গত বছর আমাজনের ভয়াবহ দাবানল আন্তর্জাতিক সংকটের কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছিল। গ্রিনপিসের দেওয়া নতুন তথ্যে এবারের দাবানল গত বছরের তুলনায় আরো ভয়াবহ হওয়ার আশঙ্কা তৈরি হয়েছে।   

গ্রিনপিস ব্রাজিলের কর্মকর্তা রোমুলো বাতিস্তা বলেন, ‘পরিবেশ নিয়ে এই (ব্রাজিল) সরকার প্রয়োজনীয় পদক্ষেপের ঘাটতি থাকার সরাসরি ফলাফল এই (দাবানল)। গত বছরের তুলনায় এবার আরো বেশি দাবানল দেখতে পাচ্ছি।’

এদিকে, ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট জাইর বলসোনারো গত মঙ্গলবার দাবানলের ঘটনাকে ‘মিথ্যা’ বলে উড়িয়ে দিয়েছেন। তিনি বলেছেন, যারা এসব বলছে,  তারা বনের ভেতর কোনো আগুন খুঁজে পাবে না।

আমাজনকে রক্ষায় এ অঞ্চলের দেশগুলোর মধ্যে হওয়া লেটিসিয়া চুক্তির অংশীদার দেশগুলোর বৈঠকে জাইর বলসোনারো বলেন, ‘আমাজনে অগ্নিকাণ্ড বাড়ছে বলে যে দাবি করা হচ্ছে, তা মিথ্যা। কাজেই সঠিক সংখ্যা জানিয়ে দিয়ে আমাদের পাল্টা লড়াই চালিয়ে যেতে হবে।’

গত মঙ্গলবার তিনি যখন দাবানলের কথা অস্বীকার করছেন, তখনো ব্রাজিলের আমাজোনাস প্রদেশের আপুই শহরে আগুন থেকে সৃষ্ট ধোঁয়ার কুণ্ডলি আকাশের দিকে উঠতে দেখা গেছে।

২০১৯ সালের আগস্টে আমাজনে দাবানল ভয়াবহ আকারে বেড়ে গিয়েছিল। গত বছরের প্রথম আট মাসে আমাজনে ৭৫ হাজারের বেশি দাবানলের ঘটনা রেকর্ড করা হয়েছিল।

পৃথিবীর বায়ুমণ্ডলে থাকা অক্সিজেনের ২০ শতাংশেরই উৎস বিশ্বের সবচেয়ে বড় রেইনফরেস্ট আমাজন। এ কারণে আমাজনকে ‘পৃথিবীর ফুসফুস’ আখ্যা দেওয়া হয়।

(নিউজ টোয়োন্টিফোর/তৌহিদ)

মন্তব্য