মনোমুগ্ধকর ব্রাজিলের রিও ডি জেনেরিও শহর

আসমা তুলি

মনোমুগ্ধকর ব্রাজিলের রিও ডি জেনেরিও শহর

ব্রাজিলের বিখ্যাত শহর রিও ডি জেনেরিওতে যাবার সুযোগ মিলেছে। কারণ সম্প্রতি করোনার মহামারির মধ্যেও কিছু স্বাস্থ্য বিধি মেনে শহরটির পর্যটন স্পটে প্রবেশের অনুমতি দিয়েছে বোলসোনারো সরকার।

ঘুরে দেখতে পারবেন সেখানকার সব দর্শনীয় স্থান, যেতে পারবেন সমুদ্র সৈকতেও।  প্রিয়জনকে নিয়ে একান্তে কাটাতে পারবেন আপনার অবসর সময়। তবে দর্শনীয় স্থান খুলে দেওয়া হলেও মাস্ক ও সামাজিক দুরত্ব বজায় রাখতে কড়াকড়ি থাকছেই।

আনন্দ ও উৎসবের নগরী বলা হয় ব্রাজিলের রিও ডি জেনেরিওকে। বিশ্বের সেরা সমুদ্র তীরের আধুনিক শহরের তালিকায় এ শহরকে বরাবরই রাখা হয় প্রথম সারিতে।

উৎসবের এই নগরীর রঙিন রূপের দেখা মিলে অসাধারণ সমুদ্র তীর থেকেই। সমুদ্র তীরের আকর্ষণে যখন হাজারো মানুষ ছুটে আসে এ শহরে তখন শহরটিকে আরো আধুনিক হিসেবে গড়ে তুলতে যেন মরিয়া হয়ে উঠে কর্তৃপক্ষ।


আরও পড়ুন:

সুন্দরবনের প্রজনন কেন্দ্রে কুমির পিলপিলের ডিম থেকে বাচ্চা ফুটেছে


আর স্বাভাবিকভাবেই আধুনিকায়নের সঙ্গে যোগ হয় নিরাপত্তা জোরদারের বিষয়টিও। নিশ্চিন্তে স্বপ্নীল সমুদ্র উপভোগের দুনির্বার আকর্ষণের কারণে ছুটে আসে হাজারো মানুষ।

পৃথিবী বিখ্যাত কার্নিভালের জন্য খুবই নাম করা রিও ডি জেনেরিও। দেশটির ইতিহাস দুইশ বছরের পুরোনো এই উৎসবটি। ব্রাজিলের বিভিন্ন অঞ্চলে এই কার্নিভাল হলেও রি ডিও জেনেরিও কে বলা হয় কার্নিভালের রাজধানী।

ব্রাজিলের এই শহরটি ঘুরে আসলেই দেখতে পাবেন সমুদ্র সৈকতের অনাবিল নীল সৌন্দর্য্য। করোনা পরবর্তী সময়ে রিও জি জেনেরিও-র বাসিন্দাদের জন্য ৩০ থেকে ৫০ শতাংশ ডিসকাউন্ট দিয়েছে কর্ছেপক্ষ। তবে অন্যদের ক্ষেত্রে সুবিধাটা নেই।

নিউজ টোয়েন্টিফোর / সুরুজ আহমেদ

মন্তব্য