যে সকল অভিযোগে ফাঁসির আসামি মিন্নি

অনলাইন ডেস্ক

যে সকল অভিযোগে ফাঁসির আসামি মিন্নি

বরগুনার চালঞ্চল্যকর রিফাত শরীফ হত্যাকাণ্ডের মাস্টারমাইন্ড স্ত্রী আয়শা সিদ্দিকা মিন্নি। তার পরিকল্পনাতেই রিফাতকে কুপিয়ে হত্যা করা হয় বলে পর্যবেক্ষণ দিয়েছেন বরগুনার জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মো. আছাদুজ্জামান।

পর্যবেক্ষণে আরও বলা হয়, এই হত্যাকাণ্ড জঘন্য ও ন্যক্কারজনক। ঘটনার সময় মিন্নি তার স্বামীকে রক্ষা করতে যাওয়া তার আরেকটি কৌশল। রিফাতকে কোপানোর সময় তাকে রক্ষার করার চেয়ে নয়ন বন্ডকে নিবৃত্ত করার চেষ্টা করেছিলেন মিন্নি।

বাদীপক্ষের আইনজীবী মজিবুল হক বলেন, বিচারক তার পর্যবেক্ষণে স্পষ্ট করে উল্লেখ করেছেন, মিন্নির পরিকল্পনায় এবং তার কারণেই এ হত্যাকাণ্ড সংঘটিত হয়েছে।


আরও পড়ুন: নির্জন কনডেম সেলে মিন্নি


রায় ঘোষণার সময় বিচারক বলেন, পাঁচজনের সহযোগী হিসেবে হত্যায় অংশ নিয়েছেন মিন্নি। একই সঙ্গে তারা সবাই রিফাতের মৃত্যু নিশ্চিত করেছেন। এ জন্য কলেজগেটের সামনে সময়ক্ষেপণ করেন মিন্নি। রিফাতকে যখন মারার জন্য আসামিরা নিয়ে যাচ্ছিল, তখন স্বাভাবিক ছিলেন মিন্নি। এতেই প্রমাণিত হয়, মিন্নি হত্যার ষড়যন্ত্রে লিপ্ত ছিলেন। তারই পরিকল্পনায় এ হত্যাকাণ্ড ঘটেছে। এ জন্য তাকেও ফাঁসি দেওয়া হয়েছে।

এ রায়ের মধ্য দিয়ে স্বামীকে হত্যার প্লটে মিন্নির জড়িত থাকার বিষয়টি প্রমাণিত হলো। এতে মামলার প্রধান সাক্ষী থেকে ফাঁসির দণ্ডাদেশপ্রাপ্ত আসামি হলেন মিন্নি।

news24bd.tv সুরুজ আহমেদ

মন্তব্য