ডাকাতদলের হামলায় গৃহকর্তা নিহত, নগদ টাকা ও স্বর্ণালংকার লুট

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি

ডাকাতদলের হামলায় গৃহকর্তা নিহত, নগদ টাকা ও স্বর্ণালংকার লুট

লক্ষ্মীপুরে মুখোশপরা অজ্ঞাত ডাকাতদলের হামলায় মনির হোসেন নামের এক ব্যবসায়ী গৃহকর্তা নিহত হয়েছে। এ হামলায় মনিরের স্ত্রী মনিরা বেগম গুরুতর আহত হয়েছেন। তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় প্রেরণ করা হয়েছে।

শুক্রবার (১৮ ডিসেম্বর) ভোর রাতে সদর উপজেলার তেওয়ারীগঞ্জ এলাকার আঁধার মানিক এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ সময় পরিবারের অন্য সদস্যদের বেঁধে রেখে নিহতের বাসা থেকে নগদ ২ লাখ টাকা ও স্বর্ণালংকার লুটে নেয় ডাকাতরা।

নিহতের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে। আলী আহমদ বসুর ছেলে মনির স্থানীয় মাটির ব্যবসায়ী ছিলেন। তিনি ওয়ার্ড যুবলীগের সভাপতি ছিলেন বলেও জানা গেছে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, দীর্ঘদিন ধরে মনির স্থানীয় বিভিন্ন ইটভাটায় মাটি সরবরাহ করে আসছিলেন। বৃহস্পতিবার ব্যাংক থেকে ২ লাখ টাকা নিয়ে ঘরে রাখেন তিনি। রাতে ১০-১২ জনের মুখোশ পরা ডাকাত দল তার ঘরের দরজা ভেঙে ঘরে প্রবেশ করে।

এ সময় অস্ত্রের মুখে সবাইকে জিম্মি করে পরিবারের সদস্যদের হাত, পা মুখ বেঁধে পেলে তারা। ব্যাংক থেকে উঠানো ওই দুই লাখ টাকা তাদের (ডাকাতদের) দিতে বললে তা না দেয়ায় মনির ও তার স্ত্রীকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে আহত করে ডাকাতরা। পরে ওই টাকা ও নগদ স্বর্ণালংকার লুটে নিয়ে পালিয়ে যায়। আহতদের উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। চিকিৎসার জন্য সকালে ঢাকায় নেয়ার পথে মনির মারা যায়।

সদর থানার ওসি আজিজুর রহমান মিয়া ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, এ ঘটনায় জড়িতদের সনাক্ত করে গ্রেফতারে পুলিশ তৎপর রয়েছে। থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানান তিনি।


সেনাবাহিনী থেকে খালেদা জিয়াকে চিঠি

এবার ট্রাম্পের চোখ ৬ জানুয়ারির দিকে

কুষ্টিয়ায় বিপ্লবী বাঘা যতীনের ভাস্কর্য ভাঙচুর

দুই ভাই জেলা প্রশাসক, এক বোন এএসপি


news24bd.tv কামরুল

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

সিরাজগঞ্জে নিখোঁজ অটোরিকশা চালকের গলিত মরদেহ উদ্ধার

অনলাইন ডেস্ক

সিরাজগঞ্জে নিখোঁজ অটোরিকশা চালকের গলিত মরদেহ উদ্ধার

সিরাজগঞ্জে নিখোঁজের আট দিন পর হাসান আলী (২৪) নামে এক সিএনজি চালিত অটোরিকশা চালকের গলিত মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার বিকেলে সদর থানা পুলিশ সদর উপজেলার শিয়ালকোল ইউপির নতুন ফুলবাড়ী গ্রামে একটি আনারস বাগান থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করেন।

হাসান পৌর এলাকার সয়াধানগড়া উত্তর পাড়া ভাসানী রোড মহল্লার সেলিমের ছেলে।

অটোচালক হাসান গত ১৭ ফেব্রুয়ারি থেকে নিখোঁজ ছিল।


গণধর্ষণের চেষ্টায় ব্যর্থ হয়ে কলেজছাত্রীর গায়ে আগুন

বাবার সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে রাতধর ধর্ষণের শিকার মেয়ে

৩০-৩২ গার্লফ্রেন্ড থাকার পরও আমাকে ভালোবাসত নাসির: তামিমা

আমার সব প্রশ্নের জবাব ইসলামে পেয়েছি: কানাডিয়ান নারী


সদর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) গোলাম মোস্তফা জানান, গত ১৭ ফেব্রয়য়ারি হাসান নামে ওই অটোরিকশা চালক নিখোঁজ ছিল। বৃহস্পতিবার দুপুরের পর নতুন ফুলবাড়ি চরের মধ্যে একটি আনারস বাগানে গলিত মরদেহ দেখে স্থানীয়রা পুলিশে খবর দেয়।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে মরদেহ উদ্ধার করা হয়। ধারণা করা হচ্ছে ৮/৯ দিন আগেই তাকে হত্যা করে পরিত্যক্ত বাগানে ফেলে রাখা হয়েছিল। তবে নিখোঁজের পর পরিবারের কেউ থানায় অবগত করেনি।

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

বাবার সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে রাতধর ধর্ষণের শিকার মেয়ে

শাকিলা ইসলাম জুই, সাতক্ষীরা

বাবার সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে রাতধর ধর্ষণের শিকার মেয়ে

সাতক্ষীরার তলুইগাছায় এক স্কুলছাত্রী ধর্ষণের ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের হয়েছে। বুধবার রাতে ধর্ষক সুব্রতর নামে থানায় মামলাটি দায়ের করেন নির্যাতিতা স্কুলছাত্রীর বাবা। এর আগে মঙ্গলবার রাতে এ ধর্ষণের ঘটনা ঘটে।

ধর্ষক সুব্রত সদর উপজেলার গড়িয়া ডাঙ্গা গ্রামের ভুত নাথের ছেলে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, সদর উপজেলার তলুইগাছা গ্রামের ওই স্কুলছাত্রীর বাবা সাতক্ষীরা একটি কলেজের শিক্ষককে গত মঙ্গলববার রাতে তার বাড়ির পাশ থেকে একটি মামলায় গ্রেপ্তার করা হয়েছে মর্মে খবর ছড়িয়ে পড়ে।

এ খবর জানার পর ওই স্কুলছাত্রী তার বাবার সাথে দেখা করার জন্য রাতেই বাড়ি থেকে বের হয়।


তামিমার পাসপোর্ট আসল কিনা মুখ খুললেন নাসিরের সাবেক প্রেমিকা

একসাথে রাম চরণ ও কোরিয়ান নায়িকা সুজি!

রাজধানীর যেসব এলাকায় গ্যাস থাকবে না আজ

পিলখানা হত্যা: শহীদদের সমাধিতে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা


একপর্যায়ে পথে প্রতিবেশী সুব্রত দাসের সাথে তার দেখা হয়। এ সময় সুব্রত তাকে তার বাবার কাছে নিয়ে যাওয়ার কথা বলে পথিমধ্যে ভবানিপুর এলাকায় নির্জন জায়গায় নিয়ে আটকে রেখে তাকে রাতভর ধর্ষণ করে। এদিকে ওই কলেজ শিক্ষক পরদিন তার মেয়ের কাছ থেকে বিস্তারিত জানার পর তিনি এ ঘটনায় নিজেই বাদি হয়ে ধর্ষক সুব্রতকে প্রধান আসামি করে থানায় মামলা দায়ের করেন। ধর্ষক সুব্রত বর্তমানে পলাতক রয়েছে।

এ মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ও সদর থানার এসআই শাহজামাল বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, ইতিমধ্যে নির্যাতিতা স্কুলছাত্রীর ডাক্তারি পরীক্ষাও সম্পন্ন করা হয়েছে। এছাড়া ধর্ষক সুব্রতকে গ্রেপ্তারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

চট্টগ্রামে আওয়ামী লীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা

অনলাইন ডেস্ক

চট্টগ্রামে আওয়ামী লীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা

চট্টগ্রামের সাতকানিয়ায় এক আওয়ামী লীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। গতকাল বুধবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে এ হামলার ঘটনা ঘটে। নিহত আওয়ামী লীগ নেতার নাম বেলাল উদ্দিন (৪৫)। তিনি উপজেলার খাগরিয়া ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ড নেতা।

বেলাল খাগরিয়ার মোহাম্মদ খালীর হাকিম আলী বাপের বাড়ির মৃত আব্দুল করিমের ছেলে। তিনি খাগড়াছড়ির পানছড়ি উপজেলায় ব্যবসা করতেন।

জানা যায়, দীর্ঘদিন ধরেই খাগরিয়া ইউনিয়নের তৈয়ারপুর এবং নূর মার্কেট এলাকার দুপক্ষের মধ্যে বিরোধ। এমনকি একে অপরের এলাকায় আসা-যাওয়াও বন্ধ ছিল। আধিপত্য বিস্তার নিয়ে হামলা পাল্টা-হামলার ঘটনাও ঘটে।

গতকাল বুধবার রাতে বেলাল উদ্দিন তৈয়ারপুর এলাকায় শ্বশুরবাড়ি গেলে প্রতিপক্ষের লোকজন তাকে একা পেয়ে হামলা করে পিটিয়ে-কুপিয়ে জখম করে।

পরে উদ্ধার করে প্রথমে দোহাজারী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ও রাত ২টার দিকে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ (চমেক) হাসপাতালে আনা হলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।


তামিমার পাসপোর্ট আসল কিনা মুখ খুললেন নাসিরের সাবেক প্রেমিকা

একসাথে রাম চরণ ও কোরিয়ান নায়িকা সুজি!

রাজধানীর যেসব এলাকায় গ্যাস থাকবে না আজ

পিলখানা হত্যা: শহীদদের সমাধিতে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা


চমেক হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) আলাউদ্দিন তালুকদার বলেন, বেলালের শরীরের একাধিক স্থানে কোপানোর চিহ্ন ও জখম রয়েছে।    

তবে এখনও কেউ মামলা করেনি। এ ব্যাপারে আইনগত প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলে জানান সাতকানিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ার হোসেন।

তিনি বলেন, খাগরিয়া ইউনিয়নে হামলার ঘটনায় একজন নিহত হয়েছেন। হামলার সঙ্গে জড়িত সন্দেহে একজনকে আটক করা হয়েছে।

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

বাঘাইছড়িতে ইউপি সদস্য হত্যা: ১৮ জনের বিরুদ্ধে মামলা

ফাতেমা জান্নাত মুমু, চট্টগ্রাম

বাঘাইছড়িতে ইউপি সদস্য হত্যা: ১৮ জনের বিরুদ্ধে মামলা

রাঙামাটির বাঘাইছড়িতে রুপকারী ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) ১নং ওয়ার্ড সদস্য সমর বিজয় চাকমাকে গুলি করে হত্যার ঘটনায় ১৮ জনের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। বৃহষ্পতিবার সকালে এ তথ্য নিশ্চিত করেন বাঘাইছড়ি উপজেলা থানার ভারপাপ্ত কর্মকর্তা মো. আনোয়ার হোসেন।

তিনি বলেন, বাঘাইছড়ি রুপকারী ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) ৩ নং ওয়ার্ডের সদস্য বিনয় চাকমা বাদী হয়ে এ মামলা দায়ের করেন।

আসামিরা হলেন- মণিময় চাকমা (৪১), সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান বড় ঋষি চাকমা (৪৫), শুভাশীষ চাকমা (৩৮), সুভাষ বসু চাকমা (৪৮), পলক তালুকদার (৪৬), দয়াসিন্ধু চাকমা (৪০), ত্রিদীপ্ত চাকমা (৫৬), বরুণ চাকমা (৪২), সোহাগ চাকমা (২৬) ও প্রভাত কুমার চাকমা (৫৮)। সবার ঠিকানা বাঘাইছড়ি উপজেলার বিভিন্ন এলাকায়। একই মামরায় আরও ৮ জনকে অজ্ঞাত আসামি করা হয়।

তবে এখনো পর্যন্ত কোন আসামি গ্রেপ্তার করা সম্ভব হয়নি। তবে পুলিশ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে এলাকায় অতিরিক্ত যৌথবাহিনীর টহল জোরদার করা হয়েছে।


তামিমার পাসপোর্ট আসল কিনা মুখ খুললেন নাসিরের সাবেক প্রেমিকা

একসাথে রাম চরণ ও কোরিয়ান নায়িকা সুজি!

রাজধানীর যেসব এলাকায় গ্যাস থাকবে না আজ

পিলখানা হত্যা: শহীদদের সমাধিতে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা


এদিকে সংবাদ মাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে ঘটনার জন্য সন্তু লারমার নেতৃত্বাধীন জনসংহতি সমিতিকে দায়ী করে অবিলম্বে আসামি গ্রেপ্তার দাবিসহ ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন, জনসংহতি সমিতি (এমএন লারমা) দলের বাঘাইছড়ি থানা শাখার সাধারণ সম্পাদক জোসি চাকমা।

অপরপক্ষে দায় অস্বীকার করে অভিযোগ সম্পূর্ণ মিথ্যা ও ষড়যন্ত্রমূলক বলে দাবি করেছেন, সন্তু লারমার নেতৃত্বাধীন জনসংহতি সমিতির নেতা ত্রিদিব চাকমা।

উল্লেখ্য, গত বুধবার দুপুর ১২টা ৪৫দিকে রাঙামাটি বাঘাইছড়ি উপজেলার পরিষদের প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তার কক্ষে রুপকারী ইউনিয়ন

পরিষদের (ইউপি) ১নং ওয়ার্ড সদস্য সমর বিজয় চাকমাকে গুলি করে হত্যা করে সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা।

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

বিয়ে করতে রাজি না হওয়ায় কেটে ফেলা হল কিষানীর তিন হাজার গাছ

অনলাইন ডেস্ক

বিয়ে করতে রাজি না হওয়ায় কেটে ফেলা হল কিষানীর তিন হাজার গাছ

মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গলে বিয়েতে রাজি না হওয়ায় এক কিষানির প্রায় তিন হাজার সবজি গাছ কেটে ফেলা হয়েছে। বুধবার দুপুরে উপজেলার আশিদ্রোন ইউপির ৮ নম্বর ওয়ার্ডের পাড়ের টং গ্রামে এমন দৃশ্য দেখা গেছে।

সবজির ভরা মৌসুমে ফলসহ গাছগুলো কেটে ফেলায় নিঃস্ব হয়ে পড়েছেন আশিদ্রোন ইউনিয়নের পাড়ের টং গ্রামের কিষানি জাহেরা খাতুন। রাতের আঁধারে তার চাষ করা ৩ একর জমির গাছগুলো কেটে এবং উপড়ে ফেলা হয়েছে।

প্রায় তিন হাজার করলা, শশা, চালকুমড়া, চিচিঙ্গাসহ বিভিন্ন সবজি গাছ মাটিতে পড়ে থাকতে দেখা গেছে। সব গাছের গোড়া কেটে এবং উপড়ে ফেলে মাটিতে রাখা হয়েছে। গাছগুলোতে ফল ও ফুল দুটোই রয়েছে। 

সবজি চাষি জাহেরা খাতুন অভিযোগ করেন, বানিয়াচং উপজেলার গুনই গ্রামের আনোয়ার আলী, পাড়ের টংয়ের ইনচার আলী ও কাদির মিয়া মঙ্গলবার রাতে তার সবজি ক্ষেত নষ্ট করেছে। সবজি গাছগুলো কেটে ফেলায় তার প্রায় ১০ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে। ঋণ নিয়ে তিন একর জমিতে সবজি চাষ শুরু করেছিলাম। ভরা ফলের সময়ে রাতের আঁধারে আমার ক্ষেতের ফসল কেটে ফেলল। আমি পরিবার নিয়ে নিঃস্ব হয়ে পড়েছি।

আরও পড়ুন:


তামিমার পাসপোর্ট আসল কিনা মুখ খুললেন নাসিরের সাবেক প্রেমিকা

একসাথে রাম চরণ ও কোরিয়ান নায়িকা সুজি!

রাজধানীর যেসব এলাকায় গ্যাস থাকবে না আজ

পিলখানা হত্যা: শহীদদের সমাধিতে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা


এ ব্যাপারে বুধবার শ্রীমঙ্গল থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেছেন তিনি।

৮ নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য বিল্লাল হোসেন ও ৭, ৮, ৯ নম্বর সংরক্ষিত ওয়ার্ডের নারী সদস্য শিল্পী পাল বলেন, আনোয়ার মিয়ার স্ত্রী মারা যাওয়ায় জাহেরা খাতুনকে বিয়ের প্রস্তাব দিয়েছিলেন। জাহেরা খাতুন এই প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় আনোয়ার মিয়া ক্ষুব্ধ হয়ে একাজ করেছেন।

আনোয়ার মিয়ার সঙ্গে কথা বলতে যোগাযোগের চেষ্টা করা হয়। তিনি পলাতক আছেন।

news24bd.tv আহমেদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর