নতুন বছরে উৎসবের আমেজ, পর্যটকের ঢল পাহাড়ে

ফাতেমা জান্নাত মুমু, চট্টগ্রাম

নতুন বছরে উৎসবের আমেজ, পর্যটকের ঢল পাহাড়ে

ঘাসের ডগায় শিশিরের বিন্দু। হ্রদ, পাহাড়ে কুয়াসার হাতছানি। আর পাহাড়ে বুকচিরে মেঘ, পাখিদের লুকোচুড়ি খেলা। শীতলতায় সিন্ধতায় গোধূলির রঙ। পুর্ণিমা রাতে কাপ্তাই হ্রদে জ্যোৎসনার স্নান। তার সাথে নতুন বছরের আগমন। সব মিলে পাহাড়ে নামছে পর্যটকদের ঢল। প্রায় প্রতিদিন আসছে দুই থেকে চার হাজারেরও অধিক মানুষ। পরিবার-পরিজন নিয়ে ভিড় করছে পার্বত্যাঞ্চলে।

অন্যদিকে বছরের প্রথম দিন সাপ্তাহিক ছুটির দিন হওয়ায় লাখো মানুষের অরণ্যে পরিনত হয়েছে রাঙামাটি। পর্যটকের পদচারণায় এ পাহাড় যেন এখন উৎসবের নগরি। এমন চিত্র শুধু রাঙামাটিতে নয়।

পর্যটক উৎসবে মেতেছে অপর দু’পার্বত্য জেলা খাগড়াছড়ি ও বান্দরবান। শীতের শুরু থেকে সবুজ অরণ্যে রাজ্য পার্বত্যাঞ্চলে
পুরোদমে শুরু হয়েছে পর্যটন মৌসূম। বইছে পর্যটক উৎসবের উল্লাস। হিম শীতের উষ্ণতা। নতুন বছরের আমেজের উৎসবকে স্মরণীয় করতে অনেকেই পরিবার-পরিজন, বন্ধ, আত্মীয় স্বজন নিয়ে ছুটে আসছে এ পাহাড়ে।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, বৃহস্পতিবার ছিল থার্টি ফাস্ট নাইট। অর্থাৎ ইংরেজি নববর্ষের আগের দিন। এ দিন থেকে রাঙামাটিতে আসতে শুরু করেছে হাজার হাজার পর্যটক। শহরের আবসিক হোটেল, মোটেল, সরকারি রেস্ট হাউসগুলো এখন কানায় কানায় ভরপুর। অগণিত পর্যটক আগমনে তিল পরিমাণ জায়গা খালি নেই কোথাও । আছে অগ্রিম বুকিং। সড়কে, সড়কে পিকনিক পার্টি ও ভ্রমন পিপাসুদের গাড়ির বহরের ভিড় যেন লেগে আছে।

সরজমিন ঘুরে দেখা গেছে, রাঙামাটির পর্যটন কেন্দ্রগুলো এখন লোকে লোকারণ্যে ভরপুর। প্রকৃতির টানে দূর-দূরান্ত থেকে এসেছে দেশি-বিদেশি হাজার হাজার পর্যটক। বন্ধু-বান্ধব, আত্মীয়-স্বজনদের নিয়ে আগত পর্যটকরা রাঙামাটির ঝুলন্ত সেতু, শুভলং ঝর্ণা, পলওয়েল পার্ক, ডিসি বাংলো পার্ক ও কাপ্তাই-আসামবস্তী সড়কসহ বিভিন্ন বিনোদন কেন্দ্রে ঘুরে বেড়াচ্ছেন। কেউ কাপ্তাই হ্রদ নৌ-ভ্রমণের আনন্দ উচ্ছ¡াসে মেতেছে। আবার কেউ প্রকৃতিকে উজাড় করে দিচ্ছে নিজেকে। বিকালের সূর্যের সোনালী রঙ যখন ছড়িয়ে পড়ে, ঠিক তখনি মানুষের ভিড় জমে পর্যটন ঝুলন্ত সেতুতে। শীতের উষ্ণতায় হ্রদ, পাহাড় আর কুয়াশার লুকোচুড়ি খেলার দেখা মিলে এখানে। তাতেই মুগ্ধ পর্যটকরা।

রাঙামাটি পর্যটন কমপ্লেক্স, ডিসি বাংলো পার্ক, পলওয়ে পার্ক, সুবলং ঝর্ণা, আসামবস্তি সড়ক, প্যাদা টিং টিং, বরগ্যাং ও
ফুরামন পাহাড়ের মত অসংখ্য পর্যটন কেন্দ্র রয়েছে রাঙামাটিতে।

এসব স্থানে পর্যটকদের জন্য গড়ে তুলে হয়েছে বিভিন্ন রেস্টুরেন্ট আর বিনোদন কেন্দ্র। রেস্টুরেন্টগুলোতে মিলছে পাহাড়ি ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীদের বিভিন্ন খাবার। যার প্রতি পর্যটকদের আকর্ষণ থাকে সবচেয়ে বেশি। এছাড়া শহরের বিভিন্ন স্থানে আছে এ অঞ্চলের মানুষের দেশিও পোশাক ও পণ্য সামগ্রী। যারা ঘুরতে আসছে তারাও ছুটে যাচ্ছে এসব শপিংমলে। ফলে চাঙা হয়ে উঠছে স্থানীয় ক্ষুদ্র পর্যটন সংশ্লিষ্ট ব্যবসাগুলো। একই সাথে ব্যস্ত সময় পাড় করছে কাপ্তাই হ্রদের নৌ- ট্যুরিস্ট বোর্ট ব্যবসায়ীরা। দিন রাত ছুটছে তারা কাপ্তাই হ্রদ ভ্রমন পিপাসুদের নিয়ে।

রাঙামাটি পর্যটন মোটেল ও হলিডে কমপ্লেক্সর ব্যবস্থাপক সৃজন বিকাশ বড়ুয়া জানান, এবার শীত মৌসূমে পাহাড়ে আগের মত পর্যটকদের আনাগোনা নেই। তবে নতুন বছরকে কেন্দ্র করে কিছু পর্যটক আসছে এখানে। আগে এসময় প্রতিদিন ১০ থেকে ১৫হাজার পর্যটক। কিন্তু এখন ৪থেকে ৫হাজার পর্যটক আসছে এখানে। তাই আমাদের ৬০লাখ টাকা লক্ষমাত্র থাকলেও গত এক মাসে রাঙামাটি পর্যটন কমপ্লেক্সে ৪৫লাখ রাজস্ব আয় হয়েছে। তবে ইংরেজি নতুন বছরকে ঘিরে এখন ৯০ভাগ পর্যটক মোটেল বুকিং রয়েছে।

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

‘তুমি’ বলায় মারামারি, প্রাণ গেল একজনের

অনলাইন ডেস্ক

‘তুমি’ বলায় মারামারি, প্রাণ গেল একজনের

রাজধানীর আফতাব নগর এলাকায় গত ২২ তারিখে 'তুমি' সম্মোধন করার জেরে দুই পরিবারের মধ্যে মারামারির ঘটনায় আহত কাজল আজ শুক্রবার সকালে মারা গেছে।

এ ঘটনায় কেউ আটক নেই, দুই পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় মামলা দায়ের হয়েছে।

বিস্তারিত আসছে

news24bd.tv / নকিব

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

বিসিসি’র প্রকৌশলী পরিচয়ে চাঁদাবাজি আটক ১

রাহাত খান, বরিশাল:

বিসিসি’র প্রকৌশলী পরিচয়ে চাঁদাবাজি আটক ১

বরিশাল সিটি করপোরেশনের (বিসিসি) প্রকৌশলী পরিচয়ে চাঁদাবাজী সহ প্রতারণার অভিযোগে এক ব্যক্তিকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করা হয়েছে। 

সিটি করপোরেশন কর্তৃপক্ষ আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে নগরীর ২৩ নম্বর ওয়ার্ডের আজিজিয়া হাউজিং এলাকা থেকে আটক করে বিকেলে থানা পুলিশে সোপর্দ করে। 

আটক যুবকের নাম মো. সবুর খান (৪২)। তিনি নগরীর বৈদ্যপাড়া এলাকায় ভাড়াটিয়া হিসেবে বসবাস করে জেলার বানারীপাড়ায় এলজিইডি’র একটি প্রকল্পে মাস্টাররোলে কাজ করছেন। তিনি ঝালকাঠী জেলার কাঠালিয়া উপজেলার আ. রহমান খানের ছেলে। 

সিটি করপোরেশনের প্রশাসনিক কর্মকর্তা কাজী মোয়াজ্জেম হোসেন জানান, সবুর খান বিভিন্ন সময় নগরীর বিভিন্ন এলাকায় নির্মানাধীন বাড়ির মালিকদের কাছে গিয়ে নিজেকে সিটি করপোরেশনের প্রকৌশলী পরিচয় দিয়ে চাঁদাবাজী সহ প্রতারণা করে আসছিল। 

আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে সে সিটি করপোরেশনের প্রকৌশলী ফরিদ মাহমুদ পরিচয়ে  ২৩ নম্বর ওয়ার্ডের আজিজিয়া হাউজিং এলাকায় জনৈক মো. মাইনুদ্দিনের নির্মানাধীন ৪ তলা ভবনের অনুমোদিত নকশা সহ কাগজপত্র দেখতে চায়। খবর পেয়ে সিটি করপোরেশনের নিরাপত্তারক্ষীরা তাকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করে। 


সেই দুই ভাইয়ের সাড়ে ৫ হাজার বিঘা জমি, ৫৫টি বাস ক্রোকের নির্দেশ

দেশে করোনার সর্বশেষ মৃত্যু-শনাক্তের তথ্য

টিকা নেয়ার ১২ দিন পর ত্রাণ সচিবের করোনা শনাক্ত

চাকায় ওড়না পেঁচিয়ে রাস্তায় পড়ে মারা গেলো মেয়েটি


জিজ্ঞাসাবাদে সে সিটি করপোরেশনের প্রকৌশলী পরিচয়ে নির্মানাধীন ভবন মালিকদের কাছ থেকে বিভিন্ন অংকের চাঁদা আদায়ের কথা স্বীকার করেছে। পরে তাকে থানায় সোপর্দ করা হয় বলে তিনি জানান।

কোতয়ালী মডেল থানার ওসি মো. নুরুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করে নিউজ টোয়েন্টিফোরকে বলেন, এ ঘটনায় আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। 

news24bd.tv / কামরুল 

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

মুকুলে ছেয়ে গেছে দিনাজপুরের লিচুর বাগান

পরিচর্যায় ব্যস্ত বাগানিরা

ফখরুল হাসান পলাশ, দিনাজপুর

মুকুলে ছেয়ে গেছে দিনাজপুরের লিচুর বাগান

লিচুর জন্য বিখ্যাত দিনাজপুর জেলা। আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় বাগান গুলোতে গেল কয়েক বছরের চেয়ে লিচুর মুকুল এসেছে লক্ষ্য করার মততো। এরই মধ্যে বাগানিরা লিচু বাগানের পরিচর্যায় ব্যস্ত সময় পার করছে। প্রাকৃতিক কোনো দুর্যোগ না হলে ভালো ফলনের আশা করছেন তারা। তবে কৃষকদের অভিযোগ কৃষি অফিস থেকে লিচু চাষিদের সব ধরনের পরামর্শ দিয়ে যাচ্ছেন।


গণধর্ষণের চেষ্টায় ব্যর্থ হয়ে কলেজছাত্রীর গায়ে আগুন

বাবার সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে রাতধর ধর্ষণের শিকার মেয়ে

৩০-৩২ গার্লফ্রেন্ড থাকার পরও আমাকে ভালোবাসত নাসির: তামিমা

আমার সব প্রশ্নের জবাব ইসলামে পেয়েছি: কানাডিয়ান নারী


লিচু জেলা দিনাজপুর। এরই মধ্যে এ জেলার ছোট বড় সব বাগানেই গাছে গাছে লিচুর মুকুলে ছেয়ে গেছে। ফাগুনের হাওয়ায় দুলছে এই সব লিচুর মুকুল। বাগানীরাও তাই ব্যস্ত সময় পার করছে লিচু গাছ পরিচর্যায়। প্রতি বছর এ জেলায় লিচুর বাগান বৃদ্ধি পেলেও কৃষি অফিসের তথ্য মতে ছোট বড় সব মিলিয়ে প্রায় সাড়ে ৫ হাজার হেক্টর জমিতে লিচুর বাগান রয়েছে এবং বাগান আছে প্রায় সাড়ে তিন হাজার। প্রতিবছর এই জেলায় লিচু উৎপাদন হয় ২৫ হাজার মেট্রিক টনের বেশি।

এবার বাম্পার ফলনের আশা করছে লিচু চাষিরা। তবে আবহাওয়া অনুকূলে থাকলে গতবারের তুলনায় ভালো ফলন হবে বলে মনে করছেন লিচু চাষিরা।

বাগানীরাও বেশ পরিচর্যায় ব্যস্ত সময় পার করছে। গাছে পানি সেচ, কিটনাশক স্প্রে, সার দেয়াসহ সব ধরনের পরিচর্যা করেছে তারা।

অপরদিকে কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক কৃষিবিদ তৌহিদুল ইকবাল জানান, ভালো ফলনের জন্য কৃষকদের সব ধরনের পরামর্শ দিয়ে যাচ্ছেন। তবে এ বছর লিচুর মুকুল কিছুটা আগাম এসেছে বলে জানালেন এই কর্মকর্তা। বম্বাই, মাদ্রাজী, বেদানা, কাঠালী, চায়না থ্রীসহ বিভিন্ন জাতের লিচুর বাগান রয়েছে এখানে। এ জেলায় সবচেয়ে বেশি লিচুর বাগান রয়েছে সদর ও বিরল উপজেলায়।

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

৯৯৯ এ কল ডুবে যাওয়া জাহাজের ১১ নাবিক উদ্ধার

অনলাইন ডেস্ক

৯৯৯ এ কল ডুবে যাওয়া জাহাজের ১১ নাবিক উদ্ধার

এম ভি বোরহান সরদার নামের এক সিমেন্ট ক্লিংকার বাহী লাইটার জাহাজ ১১ জন নাবিক সহ চট্টগ্রাম বন্দর থেকে মোংলা বন্দরের উদ্দেশ্যে যাত্রা করেছিল ২৪ ফেব্রুয়ারি বুধবার সকালে। মেঘনা নদীর লক্ষীপুরের, রামগতি থানাধীন গজারিয়ার চর এলাকায় যখন তারা পৌঁছায় তখন রাত নেমে আসে। নদীতে তখন কুয়াশার কারণে তাদের দৃষ্টিসীমা কমে গিয়েছিল। সেখানে নোঙ্গর করে রাত কাটিয়ে সকালে রওনা দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয় তারা।

রাত তখন সাড়ে এগারোটা। কুয়াশার কারণে দিকভ্রান্ত হয়ে সেতু ৬ নামে একটি জাহাজ তাদের নোঙর করা জাহাজকে প্রচণ্ড জোরে ধাক্কা দিয়ে চলে যায়। ধাক্কায় তাদের জাহাজের তলা ফেটে পানি উঠতে শুরু করে। কুয়াশার কারণে চারপাশে পরিষ্কার কিছুই দেখা যাচ্ছিল না। তারা বাঁচাও বাঁচাও অনেক চিৎকার করেছিল কিন্তু মাঝ রাতে মাঝ নদীতে কেউ তাদের সাহায্যে এগিয়ে আসেনি। ইতিমধ্যে ঘণ্টাখানেক কেটে গেছে। রাত তখন সাড়ে বারোটা, ক্যালেন্ডারের তারিখ পালটে হয়ে গেছে ২৫ ফেব্রুয়ারি। জাহাজে পানি উঠে এক পাশ কাত হয়ে গেছে, যেকোন সময় পুরো জাহাজ ডুবে যেতে পারে। হঠাৎ মো. সোহেল নামে এক নাবিকের মনে হলো শেষ চেষ্টা হিসেবে ৯৯৯ এ ফোন করে দেখা যাক।


সেই দুই ভাইয়ের সাড়ে ৫ হাজার বিঘা জমি, ৫৫টি বাস ক্রোকের নির্দেশ

দেশে করোনার সর্বশেষ মৃত্যু-শনাক্তের তথ্য

টিকা নেয়ার ১২ দিন পর ত্রাণ সচিবের করোনা শনাক্ত

চাকায় ওড়না পেঁচিয়ে রাস্তায় পড়ে মারা গেলো মেয়েটি


৯৯৯ যখন মো. সোহেলের ফোন কলটি রিসিভ করে রাত তখন একটা বাজতে এক মিনিট বাকি। ৯৯৯ তাৎক্ষণিক ভাবে নৌ পুলিশ নিয়ন্ত্রণ কক্ষে বিষয়টি জানায়। নৌ পুলিশ নিয়ন্ত্রণ কক্ষ থেকে বিষয়টি লক্ষীপুরের বড়খেরী নৌ পুলিশ ফাঁড়িকে জানানো হয়। ঘটনাস্থল বড়খেরী নৌ পুলিশ ফাঁড়ি থেকে নৌপথে ১২/১৩ কিমিঃ দূরত্বে অবস্থিত। 

সংবাদ পেয়ে বড়খেরী নৌ পুলিশ ফাঁড়ির একটি দল উদ্ধারকারী নৌযান যোগে ঘটনাস্থলের উদ্দেশ্যে রওনা দেয় রাত দুইটার দিকে । কিন্তু কুয়াশার কারণে দৃষ্টিসীমা কম থাকায় তাদের যথেষ্ট সাবধাণে এবং ধীরে নৌ পথে অগ্রসর হতে হয়েছে। অবশেষে ভোর পাঁচটার টার একটু পরে কুয়াশাচ্ছন্ন মেঘনা নদী থেকে একটি মাছ ধরা ট্রলারের সহযোগিতায় নদীতে লাইফ জ্যাকেট পরে ভাসমান অবস্থায় ১১ জন নাবিককে উদ্ধার করা হয়েছে।

ইতিমধ্যে এম ভি বোরহান সর্দার ১ সম্পূর্ণ রূপে নিমজ্জিত হয়ে গেছে। উদ্ধারকৃত নাবিকদের নিরাপদে তীরে নিয়ে আসা হয়েছে এবং তারা সবাই সুস্থ আছেন।

news24bd.tv / কামরুল 

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

দু'নম্বরি করলে লুকিয়ে বিয়ে করতাম: নাসির (ভিডিও)

অনলাইন ডেস্ক

দু'নম্বরি করলে লুকিয়ে বিয়ে করতাম: নাসির (ভিডিও)

আমরা যদি দু'নম্বরি করতাম তাহলে লুকিয়ে বিয়ে করতাম। এতো লোক সমাগমে করতাম না। নিউজ টোয়েন্টিফোরকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে এমন কথা বলেছেন ক্রিকেটার নাসির হোসেন।

বুধবার বিকাল পাঁচটার দিয়ে সংবাদ ব্রিফিংয়ে আসেন নাসির, তামিমা, তাদের আইনজীবীসহ বেশ কয়েকজন। এসময় প্রথমে কথা বলেন নাসিরের আইনজীবী।

নাসিরের আইনজীবীর বক্তব্যের পর কথা বলেন তামিমা তাম্মি। তামিমার ডান পাশেই বসা ছিলেন নাসির।

অনুষ্ঠানের ভিডিওতে দেখা যায়, তামিমা শুরুতেই রাকিবের অভিযোগ মিথ্যা বলে দাবি করেন। তবে তামিমা বলেন, রাকিব যেসব কথা বলেছেন তার মধ্যে মাত্র দুইটি কথা সত্য। এক, রাকিবের সঙ্গে আমার বিয়ে হয়েছিল। দ্বিতীয়, আমাদের একটি মেয়ে আছে।

তামিমা এসব কথা বলার সময় একটু বিব্রত বোধ করেন। এসময় নাসির তাকে পিঠ চাপড়ে স্বাভাবিক করার চেষ্টা করেন। তামিমা তখন হেসে দেন।

ভিডিও দেখতে ক্লিক করুন

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর