বিয়ের কারণেই কি ঘনিষ্ঠ দৃশ্যে অভিনয়ে না? কি বলছেন অভিনেত্রী

অনলাইন ডেস্ক

বিয়ের কারণেই কি ঘনিষ্ঠ দৃশ্যে অভিনয়ে না? কি বলছেন অভিনেত্রী

খুব সাহসী অভিনেত্রী হিসেবেই পরিচয় গওহর খানের। শুরু থেকেই ঘনিষ্ঠ দৃশ্যে অভিনয়ে না নেই তার। ওটিটি প্ল্যাটফর্মে গওহর খানের নতুন সিরিজ মুক্তি পেতে চলেছে। ‘তাণ্ডব’ নামের আরেকটি সিরিজেও অভিনয় করতে দেখা যাবে তাকে।

নতুন নতুন মুখগুলো সব জায়গা করে নিচ্ছে ওটিটিতে। সেখানে গওহরকে কেন দেখা যাচ্ছে না। জানা গেল তিনি আর সাহসী দৃশ্যে অভিনয় করতে চান না। তাই একাধিক সুযোগ হাতছাড়া করতে হয়েছে তাকে। তবে প্রশ্ন তাহলে কি বিয়ের পর স্বামী জায়েদ দরবারের আপত্তিতেই সরে যাচ্ছেন অভিনেত্রী।

অভিনেত্রী জানালেন, এটা তার স্বামী আপত্তি না, সিদ্ধান্তটা সম্পূর্ণ নিজের। কেবল ঘনিষ্ঠ দৃশ্য অথবা সাহসী দৃশ্যের জন্যই ডাকা হচ্ছে গওহরকে। 

সম্প্রতি একটি সংবাদমাধ্যমে সাক্ষাৎকারে তিনি জানালেন, তাঁর যদি মনে হয়, চিত্রনাট্যে সেই দৃশ্যটির প্রয়োজন নেই, তবে সেই চরিত্রটির জন্য রাজি হন না তিনি। তিনি জানান, আমি একটি সীমারেখা টেনেছি নিজের জন্য। একজন অভিনেত্রী হিসেবে আমার দায়িত্ব চরিত্রটিকে ফুটিয়ে তোলা। তার জন্য যা প্রয়োজন আমি করব।


আরও পড়ুন: কি এমন কথা বলল রোহনপ্রীত, যা শুনে চোখে জল নেহার (ভিডিও)


ডিসেম্বরের শেষের দিকে কোরিয়োগ্রাফার জায়েদ দরবারের সঙ্গে বিয়ে হয় অভিনেত্রী গওহর খানের। কিন্তু তার এই সিদ্ধান্তে উপনীত হওয়ার কারণটি ধীরে ধীরে তৈরি হয়েছে। 

গত দেড় বছর ধরে কেবল এক ধরনের চরিত্র এসেছ তাঁর কাছে। তিনি জানালেন, ‘‘আমার মনে হচ্ছিল, মন প্রাণ দিয়ে অভিনয় করতে পারব না আমি। যত বড় ছবিই হোক না কেন, আমি না বলে দিয়েছি।’’

news24bd.tv আহমেদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

কিংবদন্তি সংগীতশিল্পী জানে আলম আর নেই

অনলাইন ডেস্ক

কিংবদন্তি সংগীতশিল্পী জানে আলম আর নেই

চলে গেলেন কিংবদন্তি সংগীতশিল্পী জানে আলম (ইন্নালিল্লাহি ওয়াইন্নইলাহি রাজিউন)। আজ মঙ্গলবার রাত ১০টায় তিনি রাজধানীর পিজি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। মৃত্যুর খবরটি নিশ্চিত করেছেন প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান সিডি চয়েসের কর্ণধার জহিরুল ইসলাম সোহেল।

তিনি বলেন, ‘এক মাস আগে তিনি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হন। এরপর করোনা নেগেটিভ হলেও নিউমোনিয়াসহ নানা জটিল রোগে আক্রান্ত হন। এর জন্য গেল এক মাস বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন।’


সবইতো চলছে, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান কেন ঈদের পরে খুলবে: নুর

আইন চলে ক্ষমতাসীনদের ইচ্ছেমত: ভিপি নুর

রাঙামাটিতে বিজিবি-বিএসএফের পতাকা বৈঠক

৭৫০ মে.টন কয়লা নিয়ে জাহাজ ডুবি, শুরু হয়নি উদ্ধার কাজ

মোবাইলে পরিচয়, দেখা করতে গিয়ে গণধর্ষণের শিকার কিশোরী

নোয়াখালীতে স্ত্রীকে পিটিয়ে হত্যা: স্বামী আটক


সোহেল আরও বলেন, ‘অবস্থার অবনতি হলে মঙ্গলবার জানে আলম ভাইকে লাইফ সাপোর্ট দেওয়া হয়। কিন্তু শেষ রক্ষা হলো না। আলম ভাই আমাদের একা ফেলে চলে গেলেন। সারাক্ষণ হাসিখুশি মানুষটা এভাবে হুট করে চলে যাবেন, ভাবতেও পারছি না।’

তার গানের শুরুটা স্বাধীনতার পর পরই। প্রথম অ্যালবাম ‘বনমালী’ দিয়ে তৈরি হয় পরিচিতি। সে সময় পপ শিল্পী আজম খান তাকে অনেক অনুপ্রেরণা দিয়েছেন। পপ গানের মধ্যে ফোক ধাঁচ এবং অধ্যাত্মবাদ যুক্ত করে গান করা তার বৈশিষ্ট্য।

জানে আলমের নিজের গাওয়া গানের সংখ্যা চার হাজারের মতো। এছাড়া তার লেখা, সুর এবং পরিচালনা করা গান রয়েছে প্রায় তিন হাজার। বাংলাদেশের অনেক পরিচিত শিল্পীই গেয়েছেন তার গান।

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

জীবনের গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায় শুরুর কথা জানালো শ্রাবন্তী!

অনলাইন ডেস্ক

জীবনের গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায় শুরুর কথা জানালো শ্রাবন্তী!

গতকাল সোমবার প্রত্যক্ষ রাজনীতিতে যোগ দিয়েছেন টলিউড অভিনেত্রী শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায়। আর আজ মঙ্গলবার অভিনেত্রী নিজেই জানান দিলেন তার জীবনের নতুন অধ্যায়ের কথা। স্বামী রোশান সিংয়ের সঙ্গে টানাপোড়েন ভুলে গিয়ে নতুন পথে পা বাড়িয়েছেন তিনি। শ্রাবন্তীর নতুন অধ্যায় নিয়ে জোর আলোচনা চলছে টলিউডে।

সোমবার (০১ মার্চ) ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির দল বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন শ্রাবন্তী। বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ, রাজ্য পর্যক্ষেক কৈলাশ বিজয়বর্গী, সাংসদ স্বপনদাশ গুপ্তর উপস্থিতিতে বিজেপির পতাকা হাতে তুলে নিয়েছেন এ তিনি।

রাজনীতিতে যোগ দেওয়ার পর মঙ্গলবার (২ মার্চ) নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন শ্রাবন্তী। 

সেখানে তিনি লিখেছেন, ‘প্রণাম। গতকাল থেকে জীবনের এক গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায় শুরু হল। তাই আপনাদের কাছে নত মস্তকে আশীর্বাদ কামনা করছি। একজন মা এবং নারী হিসেবে চাইব আমাদের সবার সন্তান যেন ‘সোনার বাংলা’ তে বড় হয়ে উঠুক।’


গুপ্তচরবৃত্তির ইসরাইলি জাহাজে ইরানের হামলা!

ওটিটি প্ল্যাটফর্মেও ডাবল ব্লকবাস্টার দৃশ্যম টু!

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ নিয়ে মুখোমুখি অবস্থানে পাক-ভারত!

অপো নতুন ফোনে থাকছে ১২ জিবি র‌্যাম


স্ট্যাটাসের শেষে ‘জয় শ্রী রাম’ এবং হ্যাশট্যাগে লিখেন নরেন্দ্র মোদি,অমিথ শাহ,দিলিপ ঘোষ বিজেপি ইত্যাদি। শেষে লিখেন সোনার বাংলা।

শ্রাবন্তীর স্ট্যাটাসে মিশ্র প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেছেন নেটিজেনরা। মন্তব্যের ঘর থেকেই সে ধারণা পাওয়া যাচ্ছে। ভক্তদের অনেকে শ্রাবন্তীকে শুভেচ্ছা জানালেও এক হাত নিয়েছেন দুষ্টু নেটিজেনদের কেউ কেউ। 

অভিনেত্রীকে কটাক্ষ করে সানায়া সানা লিখেছেন, ‘দয়া করে বহুবিবাহ আইন চালু করতে আন্দোলন করবেন না। একজন মা আর নারী হিসেবে নিজের পরিবার সন্তানের কাছে আগে ভালো আর আদর্শনীয় হতে হয়। দয়া করে সেটা বুঝুন। ঝান্ডা নিয়ে নাড়ালেই হয়ে যায় না।’

তার নীচেই আবির নামে একজন লিখেছন, ‘একজন অভিনেত্রী হয়ে এটা আপনার শোভা পেলো না। বাংলা টলিউডের রাণী ছিলে তুমি। বিশ্বাস করো আজকের পর থেকে কেউ তোমাকে দেখে ক্রাশ খাবে না।’

১৯৯৭ সালে ‘মায়ার বাঁধন’ সিনেমার মাধ্যমে অভিনয় জীবন শুরু করেন শ্রাবন্তী। ২০০৩ সালে ‘চ্যাম্পিয়ন’ সিনেমায় অভিনয় করে আলোচনায় আসেন তিনি। এরপর প্রায় অর্ধশতাধিক সিনেমায় অভিনয় করেছেন তিনি। টলিউডের পাশাপাশি ঢালিউডের সিনেমাতে অভিনয় করেছেন শ্রাবন্তী।

২০০৩ সালে প্রথম পরিচালক রাজীবের সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন শ্রাবন্তী। তাদের ঘর আলো করে আসে পুত্রসন্তান অভিমন্যু। পরবর্তীতে রাজীবের সঙ্গে ছাড়াছাড়ি হয় তার। এরপর শ্রাবন্তী ২০১৬ সালে বিয়ে করেন প্রেমিক কৃষাণ ভিরাজকে। ২০১৭ সালের আগস্টের দিকে দ্বিতীয় সংসারেও ভাঙনের সুর বেজে ওঠে। ২০১৭ সালের শেষের দিকে বিবাহবিচ্ছেদের কথা জানান শ্রাবন্তী।

২০১৯ সালে তৃতীয়বারের মতো রোশানের সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন শ্রাবন্তী। ২০১৯ সালের ১৯ এপ্রিল অনেকটা গোপনে প্রেমিক রোশান সিংয়ের সঙ্গে সাতপাকে বাঁধা পড়েন তিনি। গত বছরে দুর্গাপূজার আগে থেকে আলাদা থাকছেন তারা। যদিও আনুষ্ঠানিক বিচ্ছেদের কথা জানাননি এই দম্পতি।

news24bd.tv/আলী

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

সোশ্যাল মিডিয়ার ‘ট্রল’ না করার অনুরোধ রোশানের

অনলাইন ডেস্ক

সোশ্যাল মিডিয়ার ‘ট্রল’ না করার অনুরোধ রোশানের

গতকাল সোমবার প্রত্যক্ষ রাজনীতিতে যোগ দিয়েছেন টলিউড অভিনেত্রী শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায়। ওই দিনই রাতে নিজের ইনস্টাগ্রাম থেকে প্রথম লাইভ হলেন অভিনেত্রীর স্বামী রোশন সিংহ।

নিজের সম্পর্কে তিনি জানিয়েছেন অদূর ভবিষ্যতেও রাজনীতিতে আসার কোনও পরিকল্পনা নেই তার। তিনি সফল ব্যবসায়ী, এই পরিচয়েই খুশি। প্রতিবাদ জানালেন ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে ট্রোলিংয়ের। নাম না করেই প্রচ্ছন্ন সমর্থন জানালেন শ্রাবন্তীকে! যদিও রোশন ও শ্রাবন্তীর মধ্যে এই মুহূর্তে ব্যবধান সর্বজনবিদিত।

একই সঙ্গে তার আপত্তি ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে সাধারণের অযথা কৌতূহলে। শুধু কৌতূহল নয়, অকারণে ট্রোলড হতে হয় তাকে। রোশনের অভিযোগ, কোনও কিছু না জেনেই কিছু নেটাগরিক রোজই তাকে ট্রোল করে চলেছেন। তিনি যা পোস্ট করেন, তাই নিয়েই ব্যঙ্গ শুরু করেন তারা। এই আচরণ তিনি আশা করেন না।


আমাকে ‘বলির পাঁঠা’ বানানো হয়েছে: সামিয়া রহমান

পরবর্তী নির্বাচনে আবারও অংশ নিবেন ডোনাল্ড ট্রাম্প

ইরানের সমঝোতা প্রস্তাব প্রত্যাখ্যানে হতাশ যুক্তরাষ্ট্র

খাশোগি হত্যাকান্ড: রহস্যজনকভাবে বদলে গেল প্রতিবেদনে অভিযুক্তের নাম


এই প্রসঙ্গে নাম না করে তিনি সমর্থন করেন শ্রাবন্তীকেও। বলেন, ‘‘যে যে ভাবে ভাল থাকতে চাইছেন, থাকতে দিন তাকে। কেন অযথা ট্রোল করছেন?’’ পাশাপাশি, শ্রাবন্তীকে শুভেচ্ছা জানাতেও ভোলেননি তিনি।
বিচ্ছেদ না হলেও এক বাড়িতে থাকেন না রোশন-শ্রাবন্তী। এর আগে সোশ্যাল মিডিয়ায় রোশন স্বয়ং বিঁধেছেন স্ত্রীকে। তার গলাতেই এখন অন্য সুর!

news24bd.tv / নকিব

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

এই প্রথম ‘ভদ্র-সভ্য’ ভাবে ছবি তুলেছেন মীর: স্বস্তিকা

অনলাইন ডেস্ক

এই প্রথম ‘ভদ্র-সভ্য’ ভাবে ছবি তুলেছেন মীর: স্বস্তিকা

সরস্বতী পুজোয় এক ফ্রেমে বন্দি হওয়ার পর মীরকে আম দই পাঠালেন অভিনেত্রী! সেই উপহার পেয়ে আনন্দে আটখানা অভিনেতা-সঞ্চালক। নিজের সামাজিক পাতায় ছবি শেয়ারও করেছেন।

ক্যাপশনে ধন্যবাদও জানিয়েছেন স্বস্তিকাকে, টানা ৩৬ ঘণ্টা না ঘুমিয়ে কাজের পর শরীর-মন জুড়িয়ে দেওয়ার মতোই উপহার'। তার পরেই নিজেকে বলেছেন, ডুব দে এ বার আম দইয়ে!

দই দিয়ে দুইয়ে দুইয়ে চার করার চেষ্টা না করলেও স্বস্তিকা-মীরের সম্পর্ক যে মিষ্টি মধুর, অস্বীকার করতে পারছেন না নিন্দুকেরাও। এ বছরের সরস্বতী পুজোয় মীরের পরনে বাসন্তী পাঞ্জাবি। স্বস্তিকার শাড়িতে একই রঙের ছোঁয়া। ওই দিন এক সঙ্গে তোলা ৪টি ছবিই বেশ অন্য রকম। খোদ স্বস্তিকার স্বীকারোক্তি, এই দিনের তোলা ছবিগুলো নাকি স্পেশ্যাল!

তিনি বলেন, আমাদের এক সঙ্গে তোলা কোটি কোটি ছবি আছে। কিন্তু সরস্বতী পুজোয় আমরা পোশাকে যেন আরও অভিন্ন! তার থেকেও জোরালো কারণ, এই প্রথম নাকি মীর স্বস্তিকার কথা শুনে ভদ্র-সভ্য ভাবে ছবি তুলেছেন!


আমাকে ‘বলির পাঁঠা’ বানানো হয়েছে: সামিয়া রহমান

পরবর্তী নির্বাচনে আবারও অংশ নিবেন ডোনাল্ড ট্রাম্প

ইরানের সমঝোতা প্রস্তাব প্রত্যাখ্যানে হতাশ যুক্তরাষ্ট্র

খাশোগি হত্যাকান্ড: রহস্যজনকভাবে বদলে গেল প্রতিবেদনে অভিযুক্তের নাম


স্বস্তিকা নাকি মীরকে বলেছিলেন, ছবি তোলার সময় টিপিক্যাল মজার মুখভঙ্গি না করতে। মীর কথা শোনায় দারুণ খুশি তিনি। তারই পুরস্কার এই আম দই? মীরের সামাজিক পাতা বলছে অন্য কথা, সদ্য মীরের রেস্তরাঁ পা দিল ১০ বছরে। মীরের ভাষায়, সেই রেস্তরাঁ নাকি তাঁর ছেলে'। অভিনেতা বন্ধুর ছেলের জন্মদিনকে রসালো করতেই সম্ভবত ছেলের বাবাকে এই উপহার পাঠিয়েছেন কদলীবালা

news24bd.tv / নকিব

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

মানহানির মামলায় কঙ্গনাকে গ্রেফতারের নির্দেশ

অনলাইন ডেস্ক

মানহানির মামলায় কঙ্গনাকে গ্রেফতারের নির্দেশ

বলিউডে বিতর্ক আর কঙ্গনা যেন একে অপরের সাথে জড়িত। বিতর্ক ছাড়া যেন তিনি একটি দিনও থাকতে পারেন না। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম হতে শুরু করে গণমাধ্যম সব জায়গায় এই অভিনেত্রীকে দেখা যায় প্রতিবাদের ঝড় তুলতে। কিন্তু সেটাওে অনেকটা সময় ব্যক্তিগত আক্রমণের পর্যায়ে চলে যায় যখন তা আদালত পর্যন্ত গড়ায়। এবার জাভেদ আখতারের করা মানহানির মামলায় বলিউড অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাউতের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করা হয়েছে।

গত সোমবার (০১ মার্চ) এ আদেশ দেওয়া হয়েছে। আন্ধেরির মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট কোর্ট এ আদেশ দিয়েছে বলে জানা গেছে একাধিক ভারতীয় গণমাধ্যম সূত্রে।

জাভেদ আখতারের এই মামলায় আগে কঙ্গনার বিরুদ্ধে সমন জারি করা হয়েছিল। কিন্তু কঙ্গনা আদালতে হাজির না হওয়াতে গ্রেফতারের নির্দেশ দিয়েছে আদালত। 


গুপ্তচরবৃত্তির ইসরাইলি জাহাজে ইরানের হামলা!

ওটিটি প্ল্যাটফর্মেও ডাবল ব্লকবাস্টার দৃশ্যম টু!

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ নিয়ে মুখোমুখি অবস্থানে পাক-ভারত!

অপো নতুন ফোনে থাকছে ১২ জিবি র‌্যাম


এদিকে কঙ্গনার আইনজীবী ভারতীয় গণমাধ্যমকে জানান, বিষয়টি নিয়ে উচ্চ আদালতে যাবেন তারা। ২৬ মার্চ মামলার পরবর্তী দিন হিসেবে ধার্য করা হয়েছে।

বলিউড অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর পর স্বজনপোষণ বা নেপোটিজম নিয়ে সরব হয়েছিল ‍পুরো বলিউড। তাদের সঙ্গে সরব হয়েছিলেন কঙ্গনাও। করণ জোহর, আলিয়া ভাটদের পাশাপাশি জাভেদ আখতারের নামে মন্তব্য করেছিলেন কঙ্গনা। 

অভিযোগ করে কঙ্গনা বলেন, হৃতিক রোশনের সঙ্গে সম্পর্ক থাকাকালে জাভেদ তাকে বাড়িতে ডেকে হুমকি দিয়েছিলেন। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছিল তার ওই বক্তব্য। ওই বক্তব্যের কারণেই কঙ্গনার বিরুদ্ধে মানহানির মামলা করেছিলেন জাভেদ আখতার।

কিছুদিন আগেও ভারতের কৃষক আন্দোলনকে জঙ্গীর আন্দোলন বলে সম্বোধন করেছিলেন কঙ্গনা।  বলিউডের এই অভিনেত্রীর আষ্টেপৃষ্টে যেন বিতর্কই! এক বিতর্ক শেষ না হতেই কঙ্গনা আরেক বিতের্কর জন্ম দেন। নেটিজেনরা বলছেন কঙ্গনা যতটা না সবার মঙ্গলের জন্য এসব করছেন তার চেয়েও বেশি নিজের জনপ্রিয়তা বাড়ানোর জন্য এসব  বিতর্কে জড়াচ্চেন। এবার তো  সামাজিক যোযোগ মাধ্যমের বিতর্ক আদালত পর্যন্ত গড়ালো!

news24bd.tv/আলী

মন্তব্য

পরবর্তী খবর