দুর্নীতি হচ্ছে, অবশ্যই হচ্ছে : পরিকল্পনামন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক


দুর্নীতি হচ্ছে, অবশ্যই হচ্ছে : পরিকল্পনামন্ত্রী

দুর্নীতি নিয়ে আলোচনার কিছু নাই, গবেষণা করারও কিছু নাই। দুর্নীতি হচ্ছে, অবশ্যই হচ্ছে বলে জানিয়ে পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান বলেছেন, এটার ব্যবস্থাও আমাদের কাছে আছে। দুর্নীতি হলে কী করতে হবে, সেই বিধান তো আমাদের বইপত্রে আছে। আমরা এর বাইরে কিছু করতে পারবো না। যদি এটা কম হয়, তাহলে সরকারকে প্রশ্ন করেন তাহলে সরকার এটা বাড়াবে।

মঙ্গলবার দুপুরে রাজধানীর শেরেবাংলা নগরে এনইসি সম্মেলন কক্ষে ‘উন্নয়ন প্রকল্পের সম্ভাব্যতা সমীক্ষা প্রতিবেদনের খসড়া রূপরেখা চূড়ান্তকরণ’ শীর্ষক কর্মশালায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এ মন্তব্য করেন।

তিনি বলেন, আপনারা জানেন যে, আমি টেলিভিশনে বেশ প্রো-অ্যাক্টিভ। গতরাতেও আমি একজায়গা আলোচনায় ছিলাম। লন্ডন থেকে পরিচালিত একটি বাংলা চ্যানেলে। ওখানে দেখা যায়, ঘুরেফিরে দুর্নীতি নিয়েই আলোচনা। দুর্নীতিতে তাদের আগ্রহ বেশি এবং এটা নিয়ে প্রশ্ন করেন সঞ্চালক। আমি বললাম যে, দুর্নীতি নিয়ে আলোচনার কিছু নাই, গবেষণা করারও কিছু নাই। দুর্নীতি হচ্ছে, অবশ্যই হচ্ছে। এটার ব্যবস্থাও আমাদের কাছে আছে। দুর্নীতি হলে কী করতে হবে, সেই বিধান তো আমাদের বইপত্রে আছে। আমরা এর বাইরে কিছু করতে পারবো না। 

অনেক সন্তান নিতে চান প্রিয়াঙ্কা!

খোকনের বিরুদ্ধে মামলায় আমার কোনো সম্পৃক্ততা নেই : তাপস

পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, আপনারা ২০ বছর, ২৫ বছর কাজ করে এখানে এসেছেন। সব থেকে বড় কথা যেটা আমি বলতে চাই না, আই ফিল আনইজি। কিন্তু বলতে বাধ্য হই। যেখানেই যাই, যে আলোচনায় যাই, দুর্নীতি নিয়ে প্রশ্ন করে। আমি বিরক্ত হই। দুর্নীতি তো কোনো প্রশ্নের বিষয় নয়। এটা একটা ক্রিমিনাল অ্যাক্ট। পকেটমার একটা ক্রিমিনাল বিষয়। এটা নিয়ে আলোচনা করা, সেমিনার করার কোনো অর্থ হয় না। পকেটমার কী, আমরা বুঝি-জানি।

এম এ মান্নান বলেন, যেহেতু আলোচিত হচ্ছে জিনিসটা সেজন্য আপনাদের নজরে আনলাম যে, এটা নিয়ে কিন্তু প্রচুর আলোচনা আছে। আমার ধারণা, এটা এক ধরনের হাইপ, এই ধরনের একটা ভাব। কিন্তু বাস্তবে স্বীকার করতে হবে জনগণের মধ্যে যেটা আছে, নিশ্চয় এর ভিত্তি একটা আছে। নাহলে এত আলোচনা কেন হচ্ছে? এ সমন্ধে আমাদের হওয়া প্রয়োজন।

‘দুর্নীতিতে টিমওয়ার্ক মাঝে মাঝে হয় আমার ধারণা, কিন্তু সাধারণত ইন্ডিভিজুয়াল অ্যাক্ট। যদিও পকেটমার কিন্তু টিমওয়ার্ক। একজন নেয়, আরেকজনকে দিয়ে দেয়, সে আরেকজনকে দেয়– শুনেছিলাম। দুর্নীতিতে এরকম আছে কোনো কোনো ক্ষেত্রে, কিন্তু বেশিরভাগ ক্ষেত্রে দুর্নীতি ইন্ডিভিজুয়াল (আলাদা) হয় বলে আমার ধারণা’, যোগ করেন পরিকল্পনামন্ত্রী।

পরিকল্পনামন্ত্রীর বিশ্বাস, তিনি দুর্নীতিবাজ কারও সঙ্গে কাজ করেন না। তিনি বলেন, ‘প্রত্যেকটা ব্যক্তিকে আমি নিজে সন্তুষ্ট না হওয়া পর্যন্ত মনে করি সে দুর্নীতি করে নাই।’

কর্মশালায় সরকারের বিভিন্ন মন্ত্রণালয়/বিভাগ/অধিদফতরের জ্যেষ্ঠ সচিব, অতিরিক্ত সচিব, বিভিন্ন বিভাগের প্রধান, মহাপরিচালক, নির্বাহী পরিচালক, যুগ্ম প্রধান, উপ-প্রধান, উপ-সচিব পর্যায়ের মোট ৫৮ জন কর্মকর্তা অংশগ্রহণ করেন।

news24bd.tv/আলী

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

মসজিদে জামাতে ফজরের নামাজরত অবস্থায় মুসল্লির মৃত্যু

অনলাইন ডেস্ক

মসজিদে জামাতে ফজরের নামাজরত অবস্থায় মুসল্লির মৃত্যু

মসজিদে নামাজ পড়ার সময় সিজদারত অবস্থায় রুহুল আমিন মোল্লা নামে এক মুসল্লির মৃত্যু হয়েছে (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাহি রাজিউন)। ঘটনাটি ঘটেছে বরগুনার বেতাগীতে। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৩৯ বছর। 

বৃহস্পতিবার (৪ মার্চ) ফজরের নামাজে সুন্নাত শেষ করে জামাতে ফরজ নামাজ আদায় করার সময় সিজদারত অবস্থায় মারা যান রুহুল আমিন। 

আমিন মোল্লা উপজেলার হোসনাবাদ ইউনিয়নের বাধঘাট বাজার সংলগ্ন ছোপখালি গ্রামের বাসিন্দা ওয়াজেদ আলী মোল্লার সন্তান। পেশায় ব্যবসায়ী ছিলেন।


অভাব দুর হবে, বাড়বে ধন-সম্পদ যে আমলে

সূরা কাহাফ তিলাওয়াতে রয়েছে বিশেষ ফজিলত

করোনার ভ্যাকসিন গ্রহণে বাধা নেই ইসলামে

নামাজে মনোযোগী হওয়ার কৌশল


প্রত্যক্ষদর্শী মসজিদে থাকা একাধিক মুসল্লি জানান, রুহুল আমিন ফজরের নামাজে সুন্নাত শেষ করে জামাতে ফরজ নামাজ আদায় করার সময় সিজদারত অবস্থায় মারা গেছেন। একজন মুমিন মুসলিমের প্রতি আল্লাহর অশেষ রহমত না থাকলে এমন মৃত্যু হয় না।

বিকেল সাড়ে ৫টায় বাধঘাট বাজার মাঠে নামাজে জানাজা শেষে তাকে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়। 

এলাকা ও পরিবার সূত্রে জানা যায়, তিনি ব্যক্তি হিসেবে খুব ধার্মিক ও নিষ্ঠাবান ছিলেন। তার এমন মৃত্যুতে এলাকাবাসী শোকাহত।

মসজিদ ও মরহুমের জানাজা নামাজের ঈমাম বলেন, এমন মৃত্যু আমাদের সকল মুসলিমদের কাম্য। দোয়া করি আল্লাহ তাকে জান্নাতুল ফেরদৌস নসিব করেন। তিনি স্ত্রী ও দুই সন্তান সহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।

news24bd.tv/আলী

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

ঢাকায় আজ যেখানে যাবেন না

অনলাইন ডেস্ক

ঢাকায় আজ যেখানে যাবেন না

দিনের শুরুতেই পরিকল্পনা করে রেখেছেন এখানে যাবেন, সেখানে যাবেন। পরিকল্পনা মতই নির্দিষ্ট স্থানে ঠিকই গেলেন, কিন্তু গিয়ে দেখলেন তা বন্ধ। তখন মেজাজটা যে কত খারাপ হয় সেটা আর বলার ভাষা থাকে না। তাই জেনে নিন রাজধানীতে আজ শুক্রবার যে সব দর্শনীয় স্থান, এলাকা এবং মার্কেটগুলো বন্ধ থাকবে।

বন্ধ থাকবে যেসব এলাকার দোকানপাট:
বাংলাবাজার, পাটুয়াটুলী, ফরাশগঞ্জ, শ্যামবাজার, জুরাইন, করিমউল্লাহবাগ, পোস্তগোলা, শ্যামপুর, মীরহাজীরবাগ, দোলাইপাড়, টিপু সুলতান রোড, ধূপখোলা, গেণ্ডারিয়া, দয়াগঞ্জ, স্বামীবাগ, ধোলাইখাল, জয়কালী মন্দির, যাত্রাবাড়ীর দক্ষিণ-পশ্চিম অংশ, ওয়ারী, আহসান মঞ্জিল, লালবাগ, কোতোয়ালি থানা, বংশাল, নবাবপুর, সদরঘাট, তাঁতীবাজার, লক্ষ্মীবাজার, শাঁখারী বাজার, চাঁনখারপুল, গুলিস্তানের দক্ষিণ অংশ।

বন্ধ থাকবে যেসব মার্কেট:
আজিমপুর সুপার মার্কেট, গুলিস্তান হকার্স মার্কেট, ফরাশগঞ্জ টিম্বার মার্কেট, শ্যামবাজার পাইকারি দোকান, সামাদ সুপার মার্কেট, রহমানিয়া সুপার মার্কেট, ইদ্রিস সুপার মার্কেট, দয়াগঞ্জ বাজার, ধূপখোলা মাঠ বাজার, চকবাজার, বাবুবাজার, নয়াবাজার, কাপ্তানবাজার, রাজধানী সুপার মার্কেট, দয়াগঞ্জ সিটি করপোরেশন মার্কেট, ইসলামপুর কাপড়ের দোকান, ছোট কাঁটারা, বড় কাঁটারা হোলসেল মার্কেট, শারিফ ম্যানসন, ফুলবাড়িয়া মার্কেট, সান্দ্রা সুপার মার্কেট।


অভাব দুর হবে, বাড়বে ধন-সম্পদ যে আমলে

সূরা কাহাফ তিলাওয়াতে রয়েছে বিশেষ ফজিলত

করোনার ভ্যাকসিন গ্রহণে বাধা নেই ইসলামে

নামাজে মনোযোগী হওয়ার কৌশল


বন্ধ থাকবে যেসব দর্শনীয় স্থান:

সামরিক জাদুঘর: এটি বিজয় সরণিতে অবস্থিত। প্রতিদিন সকাল ১০টা ৩০ মিনিট থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত খোলা থাকে। বৃহস্পতি ও শুক্রবার সাপ্তাহিক বন্ধ।

জাতীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি জাদুঘর, আগারগাঁও: বৃহস্পতি ও শুক্রবার সাপ্তাহিক ছুটির জন্য বন্ধ থাকে। শনি থেকে বুধবার প্রতিদিন সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত খোলা থাকে। প্রবেশমূল্য জনপ্রতি ৫ টাকা। এ ছাড়া শনি ও রোববার সন্ধ্যা ৬টা থেকে ১০ টাকার টিকিটের বিনিময়ে টেলিস্কোপে আকাশ পর্যবেক্ষণ করা যায়।

শিশু একাডেমি জাদুঘর: শুক্র ও শনিবার সাপ্তাহিক ছুটি। রোববার থেকে বৃহস্পতিবার সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত খোলা থাকে।

news24bd.tv/আলী

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিলের দাবিতে বরিশালে সংহতি সমাবেশ অনুষ্ঠিত

রাহাত খান, বরিশাল

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিলের দাবিতে বরিশালে সংহতি সমাবেশ অনুষ্ঠিত

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিলের দাবিতে বরিশালে সংহতি সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। বরিশালের বিক্ষুব্ধ ছাত্র জনতার ব্যানারে আজ বৃহষ্পতিবার সকাল সাড়ে ১১টায় নগরীর সদর রোডের অশ্বিনী কুমার হলের সামনে এই সংহতি সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। 

ছাত্র ইউনিয়ন বরিশাল বিএম কলেজ শাখার সভাপতি কিশোর চন্দ্র বালার সভাপতিত্বে সংহতি সমাবেশে একাত্মতা প্রকাশ করে বক্তব্য রাখেন জেলা গণসংহতি আন্দোলনের আহবায়ক দেওয়ান আব্দুর রশীদ নিলু, গণতান্ত্রিক ছাত্র কাউন্সিল বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সংগঠক অদিতী দাস, ছাত্র অধিকার পরিষদ মহানগর শাখার সাধারন সম্পাদক মো. মুন্না সহ অন্যান্যরা। 


আইটেম গার্ল জেরিন খান এখন ড. জেরিন খান

রাজধানীর খিলক্ষেতে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ১

সিরাজগঞ্জে এইচ টি ইমামের প্রথম জানাজা সম্পন্ন

মা হচ্ছেন শ্রেয়া ঘোষাল, বেবি বাম্পের ছবি ভাইরাল


এ সময় বক্তারা কার্টুনিস্ট কিশোরের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মামলা প্রত্যাহার এবং লেখক মুশতাক আহমেদের মৃত্যুর ঘটনা তদন্ত করে সুষ্ঠু বিচার দাবি করেন। ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন দিয়ে জনগণের কণ্ঠরোধের প্রচেষ্টা চালানো হচ্ছে বলে অভিযোগ করেন তারা। অবিলম্বে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিলের দাবি জানান বক্তারা। না হলে কঠোর আন্দোলন গড়ে তোলার হুশিয়ারী দেন তারা। 

news24bd.tv আয়শা

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিলের দাবিতে ছাত্র ইউনিয়নের বিক্ষোভ

ইমন চৌধুরী, পিরোজপুর

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিলের দাবিতে ছাত্র ইউনিয়নের বিক্ষোভ

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিল ও গ্রেফতারকৃত ছাত্রনেতাদের নিঃশর্ত মুক্তির দাবিতে পিরোজপুরে বিক্ষোভ মিছিল করেছে ছাত্র ইউনিয়ন। আজ বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় জেলা ছাত্র ইউনিয়নের উদ্যোগে পিরোজপুর টাউনক্লাব থেকে বিক্ষোভ মিছিলটি বের হয়ে শহরের বিভিন্ন সড়ক ঘুরে আবার ক্লাবের সামনে এসে শেষ হয়। 

পরে ছাত্রসংগঠনটির নেতৃবৃন্দ বলেন, সরকার ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনকে ব্যবহার করে মানুষের কথা বলার স্বাধীনতা কেড়ে নিচ্ছে। কারাবন্দী অবস্থায় লেখক মুশতাক আহমেদের মৃত্যুর দায় সরকারকেই নিতে হবে। ছাত্র সংগঠনগুলো শান্তিপূর্ণ ভাবে লেখক মুশতাক আহমেদের মৃত্যুর প্রতিবাদ জানালে সেখানেও নেতাকর্মীদের উপর হামলা, মামলা দিয়ে নির্যাতন চালাচ্ছে রাষ্ট্রীয় বাহিনী। 


অবৈধভাবে ক্ষমতা দখলকারীরাই দেশকে অস্থিতিশীল করে: প্রধানমন্ত্রী

আইটেম গার্ল জেরিন খান এখন ড. জেরিন খান

রাজধানীর খিলক্ষেতে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ১

সিরাজগঞ্জে এইচ টি ইমামের প্রথম জানাজা সম্পন্ন


তাই আমাদের দাবি অবিলম্বে এই কালো আইন বাতিল এবং আন্দোলন থেকে গ্রেফতারকৃত সকল ছাত্রনেতাদের নিঃশর্ত মুক্তি দিতে হবে। 

এসময় বক্তব্য রাখেন, জেলা ছাত্র ইউনিয়নের সভাপতি ইমন চৌধুরী, দপ্তর সম্পাদক আবির হাসান, সাংস্কৃতিক সম্পাদক সোহেল ইসলাম রানা, সদস্য মিঠুন কুমার রাজ, সাদমান। জেলা বিপ্লবী ছাত্রমৈত্রীর সভাপতি শুভ মিস্ত্রী, সম্পাদক রাজিবসহ আরো অনেকে।

news24bd.tv/ আয়শা

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

আজ ঢাকার যেসব মার্কেট বন্ধ থাকবে

অনলাইন ডেস্ক

আজ ঢাকার যেসব মার্কেট বন্ধ থাকবে

সপ্তাহের একেক দিন বন্ধ থাকে রাজধানীর একেক এলাকার মার্কেট ও দোকানপাট। জেনে নিন আজ বৃহস্পতিবার রাজধানীর কোন কোন এলাকার দোকানপাট ও মার্কেট বন্ধ।

বন্ধ যেসব এলাকা

মোহাম্মদপুর, আদাবর, শ্যামলী, গাবতলী, মিরপুর স্টেডিয়াম, টেকনিক্যাল, কল্যাণপুর, আসাদগেট, ইস্কাটন, মগবাজার, বেইলি রোড, সিদ্ধেশ্বরী, মালিবাগের একাংশ, শাজাহানপুর, শান্তিনগর, শহীদবাগ, শান্তিবাগ, ফকিরাপুল, পল্টন, মতিঝিল, টিকাটুলি, আরামবাগ, কাকরাইল, বিজয়নগর, সেগুনবাগিচা, হাইকোর্ট ভবন এলাকা, রমনা শিশু পার্ক, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকা, নিউমার্কেট এলাকা।


জামালপুরে নারীর সঙ্গে ভিডিও ফাঁস হওয়া সেই ডিসির বেতন কমল

‘পরমাণু সমঝোতার একমাত্র পথ নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার’

এইচ টি ইমামের জানাজা ও দাফনের সময়

এইচ টি ইমামের মৃত্যুতে স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর শোক


বন্ধ যেসব মার্কেট

মোহাম্মদপুর টাউন হল মার্কেট, কৃষি মার্কেট, আড়ং, বিআরটিসি মার্কেট, শ্যামলী হল মার্কেট, মুক্তিযোদ্ধা সুপার মার্কেট, মাজার করপোরেট মার্কেট, মুক্ত বাংলা শপিং কমপ্লেক্স, শাহ্ আলী সুপার মার্কেট, মিরপুর স্টেডিয়াম মার্কেট, মৌচাক মার্কেট, আনারকলি মার্কেট, আয়েশা শপিং কমপ্লেক্স, কর্ণফুলি গার্ডেন সিটি, কনকর্ড টুইন টাওয়ার, ইস্টার্ন প্লাস, সিটি হার্ট, জোনাকি সুপার মার্কেট, গাজী ভবন, পল্টন সুপার মার্কেট, স্টেডিয়াম মার্কেট-১, এবং ২, গুলিস্তান কমপ্লেক্স, রমনা ভবন, খদ্দর মার্কেট, পীর ইয়ামেনি মার্কেট, বায়তুল মোকাররম মার্কেট, আজিজ কো-ওপারেটিভ মার্কেট, সাকুরা মার্কেট।

news24bd.tv আয়শা

মন্তব্য

পরবর্তী খবর