সুন্দরবনে বাঘের আক্রমণে দুই জেলে নিহত

শেখ আহসানুল করিম, বাগেরহাট

সুন্দরবনে বাঘের আক্রমণে দুই জেলে নিহত

সুন্দরবনের ভারতীয় অংশে কাঁকড়া আহরণের সময় বাঘের আক্রমণে দুই বাংলাদেশি জেলে নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার বিকেলে ভারতের সীমখালী খালে এই ঘটনা ঘটে।

নিহত জেলেরা হলেন, সাতক্ষীরার শ্যামনগর উপজেলার কৈখালী ইউনিয়নের পশ্চিম কৈখালী গ্রামের কফিল উদ্দিনের ছেলে রতন (৪২) ও একই গ্রামের মনোয়ার মিস্ত্রির ছেলে মিজানুর রহমান (৪০)।

নিহত দুই জেলের সহযোগী পশ্চিম কৈখালীর আব্দুস সাত্তারের ছেলে আবু মুসা (৪১) এখনো সুন্দরবন থেকে ফিরে আসেনি। আবু মুসার মাধ্যমে জেলে রতন ও মিজানুর রহমানের পরিবার বাঘের আক্রামণে নিহতের খবরটি নিশ্চিত হয়েছেন।

জেলে আবু মুসার ভাতিজা আল-আমিন তার চাচার উদ্ধৃতি দিয়ে জানান, তারা তিনজন ভারতের সীমখালী খালে কাঁকড়া আহরণের সময় একটি বাঘ রতন ও মিজানুর রহমানকে আক্রমণ করে। এসময় আবু মুসা বনের ভেতরে পালিয়ে রক্ষা পান। তার চাচার (আবু মুসা) শ্বশুরবাড়ি ভারতে। চাচা প্রথমে শ্বশুর বাড়িতে খবর দেন। পরে শ্বশুর বাড়ি থেকে তাদের খবর দেওয়া হলে নিহত দুই জেলের পরিবারকে জানানো হয়।

এদিকে, অপর একটি সূত্র জানায়, ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী (বিএসএফ) নিহত রতন ও মিজানুর রহমানের মরদেহ সুন্দরবনের ভারত অংশের একটি খাল থেকে উদ্ধার করেছে। আর মুসা বিএসএফের হাতে আটক হয়ে থাকতে পারেন। তবে রতন ও মিজানুর রহমানের মৃত্যু বাঘের আক্রমণে, না গরু পাচারের সময় বিএসএফের গুলিতে হয়েছে, তা এখনো স্পষ্ট নয়।


আরও পড়ুন: ফেব্রুয়ারিতে খুলছে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান


সুন্দরবনের কৈখালী ফরেষ্ট স্টেশনের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (অতিরিক্ত দায়িত্ব) আবু সাঈদ মোবাইল ফোনে জানান, তারা বৈধ পাশ-পারমিট (অনুমতিপত্র) না নিয়েই সুন্দরবনে ঢুকে ভারতীয় অংশে গিয়ে কাঁকড়া ধরার সময় বাঘের আক্রমণের শিকার হয়েছেন বলে তিনি শুনেছেন।

বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) সাতক্ষীরার নীলডুমুর ১৭ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল ইয়াসিন চৌধুরী মোবাইল ফোনে জানান, সুন্দরবনের ভারতের অংশে বাংলাদেশি দুই জেলে বাঘের আক্রমণে নিহত হয়েছেন বলে তিনি শুনেছেন এবং সে অনুযায়ী খোঁজখবর নিচ্ছেন। ঘটনা সঠিক হলে নিহত বাংলাদেশিদের মরদেহ উদ্ধারে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

news24bd.tv আহমেদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

নামাজে সিজদারত অবস্থায় মারা গেলেন মুসল্লি

নিজস্ব প্রতিবেদক

নামাজে সিজদারত অবস্থায় মারা গেলেন মুসল্লি

সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরে সিজদারত অবস্থায় আবু সামা (৬৫) নামে এক মুসল্লির মৃত্যু হয়েছে। মঙ্গলবার উপজেলার সলঙ্গার আজিজ তেলপাম্পের নামাজঘরে মারা যান তিনি। 

মৃত আবু সামা শাহজাদপুর উপজেলার চাঁদ ডাঙ্গাগ্রামের বাসিন্দা।

আজিজ তেলপাম্প চত্বরের মুদি দোকানদার সামিদুল ইসলাম জানান, গতকাল আবু সামা শহরে ভাতিজার বাড়ি থেকে নিজ বাড়ি শাহজাদপুরে ফিরছিলেন তিনি।

পথে উপজেলার হোড়গাতী এলাকায় ওই তেলপাম্পে মাগরিবের নামাজ পড়ার সময় সিজদারত অবস্থায় ঘটনাস্থলেই তিনি মারা যান।


ফাবিয়ানা আজিজ পারটেক্স স্টার গ্রুপের নতুন ডিএমডি

এবার শাকিবের নায়িকা ভারত বাংলার এই সুন্দরী

গাজী গ্রুপে মার্কেটিং অফিসার পদে চাকরির সুযোগ

সাবেক স্বামীর ৯৭ কোটি টাকার উপহার বিক্রি করেছেন অ্যাঞ্জেলিনা জোলি


আজিজ পাম্প চত্বরের মুদি দোকানদার সামিদুল ইসলাম জানান, সিরাজগঞ্জ শহরে মেয়ের বাড়িতে বেড়াতে এসেছিলেন আবু সামা। নিজ বাড়ি শাহজাদপুরে ফেরার পথে সলঙ্গার আজিজ পাম্পে নামাজ পড়ছিলেন। সিজদায় গিয়ে তিনি আর উঠেননি। সিজদারত অবস্থায় হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে তিনি মারা যান।

সলঙ্গা থানার ওসি আব্দুল কাদের জিলানী জানান, মাগরিবের ওয়াক্তে আবু সামা নামাজরত অবস্থায় হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান।কোনো অভিযোগ না থাকায় মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

news24bd.tv নাজিম

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

ফাবিয়ানা আজিজ পারটেক্স স্টার গ্রুপের নতুন ডিএমডি

অনলাইন ডেস্ক

ফাবিয়ানা আজিজ পারটেক্স স্টার গ্রুপের নতুন ডিএমডি

দেশের অন্যতম শিল্পপ্রতিষ্ঠান পারটেক্স স্টার গ্রুপের নতুন ডেপুটি ম্যানেজিং ডিরেক্টর (ডিএমডি) হিসেবে নিযুক্ত হলেন ফাবিয়ানা আজিজ। 

যুক্তরাজ্যের স্বনামধন্য বিশ্ববিদ্যালয় ইউনিভার্সিটি অব ওয়েস্টমিনস্টার থেকে ব্যবসায় ব্যবস্থাপনায় স্নাতক এবং মার্কেটিং ম্যানেজমেন্টে স্নাতকোত্তর ডিগ্রিপ্রাপ্ত ফাবিয়ানা আজিজ প্রতিষ্ঠানটিকে আরো উন্নতির দিকে এগিয়ে নিতে এবং যুগোপযোগী করে তুলতে বদ্ধপরিকর।

আরও পড়ুন:


এবার শাকিবের নায়িকা ভারত বাংলার এই সুন্দরী

গাজী গ্রুপে মার্কেটিং অফিসার পদে চাকরির সুযোগ

সাবেক স্বামীর ৯৭ কোটি টাকার উপহার বিক্রি করেছেন অ্যাঞ্জেলিনা জোলি

ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়েছে আমেরিকা, রাশিয়ারটাও প্রস্তুত


ফাবিয়ানা আজিজ কোম্পানিটির এমডি আজিজ আল মাহমুদের বড় মেয়ে এবং পারটেক্সে গ্রুপের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান সদ্য প্রয়াত এম এ হাশেমের বড় নাতনি।

news24bd.tv আহমেদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

সাতছড়ি জাতীয় উদ্যানে বিজিবির অভিযান, বিপুল গোলাবারুদ উদ্ধার

অনলাইন ডেস্ক

সাতছড়ি জাতীয় উদ্যানে বিজিবির অভিযান, বিপুল গোলাবারুদ উদ্ধার

হবিগঞ্জের সাতছড়ি জাতীয় উদ্যানে অভিযান চালিয়েছে বিজিবি। মঙ্গলবার সন্ধ্যা থেকে জাতীয় উদ্যানের প্রায় ১ কিলোমিটার ভেতরে গহীন জঙ্গলে এ অভিযান শুরু করা হয়। 

৫৫ বিজিবি’র কোম্পানী কমান্ডার লে. কর্ণেল সামিউন্নবী চৌধুরীর নেতৃত্বে এ অভিযানটি পরিচালনা করা হয়। অভিযানে গহীন জঙ্গলে বিপুল পরিমাণ গোলাবারুদের সন্ধান পাওয়া গেছে বলে জানা যায়। এর আগে কয়েকদফা অভিযান চালিয়ে বিপুল পরিমাণ অস্ত্র ও গোলাবারুদ উদ্ধার করে র‌্যাব।

আরও পড়ুন:


দেনমোহর পরিশোধ না করে স্ত্রীকে স্পর্শ করা যাবে কি না?

নামাজের ভিতরের ৭টি ফরজ কাজ জেনে নিন

মেয়েকে কখনো নিজ বাড়িতে, কখনো ঢাকা-চট্টগ্রামে যৌন কাজে পাঠাতেন মা

কিংবদন্তি সংগীতশিল্পী জানে আলম আর নেই


প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, ৭/৮টি গাড়িতে করে বিজিবি’র একটি দল বিকেলে সাতছড়ি জাতীয় উদ্যানে অবস্থান নেয়। তারা সন্ধ্যার পর উদ্যানের প্রধান সড়ক থেকে প্রায় ১ কিলোমিটার ভেতরে গহীন জঙ্গলে প্রবেশ করে।

৫৫ বিজিবি’র কোম্পানী কমান্ডার লে. কর্ণেল সামিউন্নবী চৌধুরী জানান, গহীন জঙ্গলে গোলাবারুদ রয়েছে এমন গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে অভিযান চালানো হয়। বিপুল পরিমাণ গোলাবারুদের সন্ধান পাওয়া গেছে। এ বিষয়ে বুধবার (৩ মার্চ) সাতছড়ি জাতীয় উদ্যানে সংবাদ সম্মেলন করা হবে।

news24bd.tv আহমেদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

প্রধানমন্ত্রীর রাজনৈতিক উপদেষ্টা এইচটি ইমাম সিএমএইচে

অনলাইন ডেস্ক

প্রধানমন্ত্রীর রাজনৈতিক উপদেষ্টা এইচটি ইমাম সিএমএইচে

প্রধানমন্ত্রীর রাজনৈতিক উপদেষ্টা এইচটি ইমামের শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে সিএমএইচে ভর্তি করা হয়েছে।

কিডনি জটিলতাসহ বার্ধক্যজনিত বিভিন্ন অসুস্থতা নিয়ে দুই সপ্তাহ আগে তিনি সিএমএইচে ভর্তি হন।

আজ মঙ্গলবার তার শারীরিক পরিস্থিতি অবনতি হয়েছে।

সূত্র বলছে, এইচটি ইমাম দীর্ঘদিন ধইে কিডনি জটিলতায় ভুগছেন। সাম্প্রতিক সময়ে অসুস্থতা বাড়লে তাকে সিএমএইচে ভর্তি করা হয়। প্রায় দুই সপ্তাহ ধরে তিনি চিকিত্সাধীন। কিন্তু শারীরিক অবস্থার উন্নতি না হয়ে ক্রমেই অবনতির দিকে যাচ্ছে।

২০১৪ সাল থেকে প্রধানমন্ত্রীর রাজনৈতিক উপদেষ্টা হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন হোসেন তৌফিক ইমাম।

যিনি দেশের রাজনৈতিক অঙ্গনে এইচটি ইমাম নামেই বেশি পরিচিত।

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

সিজদায় গেলেন, কিন্তু আর উঠলেন না বৃদ্ধ

আব্দুস সামাদ সায়েম, সিরাজগঞ্জ

সিজদায় গেলেন, কিন্তু আর উঠলেন না বৃদ্ধ

সিরাজগঞ্জের সলঙ্গায় আজিজ তেল পাম্পের নামাজ ঘরে সিজদারত অবস্থায় আবু সামা (৬৫) নামের এক মুসুল্লীর মৃত্যু হয়েছে।

মঙ্গলবার (২ মার্চ) বিকেলে আসর নামাজের সময় সিজদারত অবস্থায় তিনি মৃত্যুবরণ করেন। নিহত আবু সামা শাহজাদপুর উপজেলার চাঁদ ডাঙ্গা গ্রামের বাসীন্দা বলে জানা গেছে।


সবইতো চলছে, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান কেন ঈদের পরে খুলবে: নুর

আইন চলে ক্ষমতাসীনদের ইচ্ছেমত: ভিপি নুর

রাঙামাটিতে বিজিবি-বিএসএফের পতাকা বৈঠক

৭৫০ মে.টন কয়লা নিয়ে জাহাজ ডুবি, শুরু হয়নি উদ্ধার কাজ


আজিজ পাম্প চত্বরের মুদি দোকানদার সামিদুল ইসলাম জানান, সিরাজগঞ্জ শহরে ভাজিতার বাড়িতে বেড়াতে এসেছিলেন আবু সামা। নিজ বাড়ি শাহজাদপুরে ফেরার পথে সলঙ্গা থানার হোড়গাতী এলাকার আজিজ পাম্পে নামাজ পড়ার সময় সিজদারত অবস্থায় ঘটনাস্থলেই তিনি মারা যান।

সলঙ্গা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল কাদের জিলানী জানান, সিরাজগঞ্জ থেকে শাহজাদপুর ফেরার পথে আজিজ পাম্পে নামাজরত অবস্থায় হৃদযন্ত্রেক্রিয়া বন্ধ হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান। কোনো অভিযোগ না থাকায় পরিবারের কাজে মৃতদেহ হস্তান্তরের প্রক্রিয়া চলছে।

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর