প্রেমের রসায়নে সালমানের সাথে দক্ষিণী প্রজ্ঞা

অনলাইন ডেস্ক

প্রেমের রসায়নে সালমানের সাথে দক্ষিণী প্রজ্ঞা

বলিউড ভাইজান সালমান খানের বহুল প্রতীক্ষিত সিনেমা ‘রাধে: ইয়োর মোস্ট ওয়ান্টেড ভাই’। আসছে ঈদুল ফিতরে মুক্তি পাবে সিনেমাটি।  বর্তমানে ‘অন্তিম’ নামে আরও একটি সিনেমার কাজ করছেন তিনি। সিনেমাটি নির্মাণ করছেন মহেশ মাঞ্জরেকর। সালমান খান এবং আয়ুষ শর্মার সঙ্গে এই সিনেমাটি দিয়ে বলিউডে অভিষেক হতে যাচ্ছে দক্ষিণের নায়িকা প্রজ্ঞা জয়সওয়ালের।

বর্তমানে বলিউড ভাইজানের বয়স ৫৫  আর তার বিপরিতে সিনেমার রসায়নে আসছেন ৩৩ বছর বয়সী প্রজ্ঞা।

এ সিনেমায় শক্তিশালী ভূমিকায় দেখা যাবে সালমান খানকে। সিনেমাটি মারাঠি ক্রাইম ড্রামা ‘মুলশি প্যাটার্ন’ অবলম্বনে, যেটি মুক্তি পেয়েছিল ২০১৮ সালে। সিনেমাটির গল্প ব্যাপক প্রশংসা কুড়িয়েছিল।

সিনেমাটির কেন্দ্রীয় চরিত্রে অভিনয় করছেন সালমান খানের ভগ্নিপতি আয়ুশ শর্মা। সিনেমাটির শুটিং শুরু হয়েছে ১৬ নভেম্বর। সিনেমাটিতে গ্যাংস্টার চরিত্রে দেখা যাবে অভিনেতা নিকিতিন ধীরকে। তিনি সিনেমাটির অ্যাকশন সিক্যুয়েন্সে অংশ নিয়েছেন ২০ দিন। সব ঠিক থাকলে ‘অন্তিম’ হিন্দি, তামিল, তেলেগু, কন্নড় এবং ওড়িয়াসহ পাঁচটি ভিন্ন ভাষায় মুক্তি পাবে।

আবারও আসছে ‘গেম অব থ্রোনস’

স্মার্টফোনের গতি বাড়ানোর কৌশল

বাইডেন-বরিস ফোনালাপে যা কথা হলো

সম্প্রতি বলিউড হাঙ্গামা তাদের এক প্রতিবেদনে প্রকাশ করেছে, ‘বলিউডে সালমানের বিপরীতে অভিষেক করা যে কোনো নায়িকার জন্য অবশ্যই অনেক বড় কিছু। ‘অন্তিম’র নায়িকা নিয়ে নির্মাতা প্রতিষ্ঠান কিছু না জানালেও কিছু সূত্র বলছে বেশ কিছুদিন ধরেই সিনেমাটির শুটিং করছেন প্রজ্ঞা। সিনেমায় তাকে রোমান্টিক প্রেমিকার ভূমিকায় দেখা যাবে।’

‘অন্তিম’ সিনেমার শুটিং শেষ হবে ফেব্রুয়ারিতে। মুম্বাইতে বাকি অংশের শুটিং শেষেই সিনেমাটি চলে যাবে পোস্ট প্রডাকশনের কাজে। এরপর চলতি বছরের শেষ ভাগেই মুক্তি দেওয়ার কথা রয়েছে সিনেমার।

news24bd.tv/আলী

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

তামিমার পাসপোর্ট আসল কিনা মুখ খুললেন নাসিরের সাবেক প্রেমিকা

অনলাইন ডেস্ক

তামিমার পাসপোর্ট আসল কিনা মুখ খুললেন নাসিরের সাবেক প্রেমিকা

বিয়ের পর থেকেই নাসির-তামিমা ইস্যু নিয়ে আলোচনা সমালোচনা চরমে। কোন ভাবেই থামছে না নাসিরের বিয়ে বিতর্ক। একের পর এক ইস্যু জন্ম দিচ্ছে নতুন সব বিতর্কের। তাদের কাছ থেকে পাওয়া পাসপোর্ট ও ডিভোর্স পেপার নিয়ে নতুন বিতর্ক শুরু হয়েছে।

নাসির-তামিমার এই ঘটনায় শুরু থেকেই ঘি ঢেলে যাচ্ছেন নাসিরের সাবেক প্রেমিকা হুমায়রা সুবাহ। নাসিরের সংবাদ সম্মেলনের পর সোশ্যাল মিডিয়ায় সরব হন সুবাহ। সংবাদ সম্মেলনে নাসির হোসেন উপস্থাপন করেন তামিমা ও রাকিবের বিয়ে বিচ্ছেদ হয়েছে ২০১৭ সালে। ২০১৬ সালে বিয়ে বিচ্ছেদের আবেদন করেছিলেন তারা। কিন্তু সুবাহ হাজির তামিমার পাসপোর্টের কপি নিয়ে। ২০১৮ সালের এই পাসপোর্ট কপিতে দেখা যায় তামিমার স্বামীর নামের পাশে রাকিব লেখা একই সাথে জরুরি প্রয়োজনে যোগাযোগ নম্বরও রাকিবের।

সুবাহ তার পোস্টে লিখেছেন, ‘কিছু প্রমাণ দিলাম। জানিনা ঘটনা আসল কি। যাচাই করুন রাকিব ভাইয়াকে ফাসানো হচ্ছে এবং হবে। তামিমার পাসপোর্ট ২০১৮ সালের সামির নাম দেয়া রাকিব হাসান।  তাহলে ১৬ সালের জাল তালাক নামা আবার কিসের?’

আরও পড়ুন:


একসাথে রাম চরণ ও কোরিয়ান নায়িকা সুজি!

রাজধানীর যেসব এলাকায় গ্যাস থাকবে না আজ

পিলখানা হত্যা: শহীদদের সমাধিতে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা

আমি ভেতর ভেতর খুবই উন্মাদ: নোরা ফাতেহি


নাসির হোসাইন সম্প্রতি তামিমাকে বিয়ে করার পর একের পর এক লাইভে এসে এ নিয়ে নানা কথা বলছেন সুবাহ। সেগুলো আসছে আলোচনায়ও।

বিশ্ব ভালোবাসা দিবসে (১৪ ফেব্রুয়ারি) জীবনের দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করেছেন ক্রিকেটার নাসির হোসেন। স্ত্রী তামিমা তাম্মির সঙ্গে তার আকদ ও গায়ে হলুদের ভিডিও আপলোড করেন নাসির। এরপর ভাইরাল হয় তাদের বিবাহোত্তর সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের ভিডিওচিত্রও।

news24bd.tv আহমেদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

একসাথে রাম চরণ ও কোরিয়ান নায়িকা সুজি!

অনলাইন ডেস্ক

একসাথে রাম চরণ ও কোরিয়ান নায়িকা সুজি!

দক্ষিণী সুপারস্টার রাম চরণ। সফলতার সাথে কাজ করে যাচ্ছেন দক্ষিণী চলচ্চিত্রে। তার ঝুলিতে ব্যবসা সফল ছবির অভাব নেই। দক্ষিণী গুণী নির্মাতা শঙ্কর রাম চরণকে নিয়ে আরও একটি ব্যবসা সফল সিনেমা উপহার দিতে যাচ্ছেন দর্শকদের। 

নির্মাতা শঙ্কর বেশ আগেই ঘোষণা দিয়েছিলেন রাম চরণকে নিয়ে একটি বড় বাজেটের সিনেমা নির্মাণের। এবার শোনা যাচ্ছে, নাম ঠিক না হওয়া এ সিনেমায় রাম চরণের বিপরীতে অভিনয় করবেন দক্ষিণ কোরিয়ার অভিনেত্রী সুজি ব্যা। ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়া এ খবর প্রকাশ করেছেন।

ওই প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, চলচ্চিত্রটিতে দক্ষিণ কোরিয়ার অভিনেত্রী সুজি ব্যাকে নেওয়ার পরিকল্পনা করেছেন পরিচালক। আরো শোনা যাচ্ছে, সিনেমাটির কেন্দ্রীয় নারী চরিত্রে রাশমিকা মন্দনাকে দেখা যাবে।

আরও পড়ুন:


রাজধানীর যেসব এলাকায় গ্যাস থাকবে না আজ

পিলখানা হত্যা: শহীদদের সমাধিতে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা

আমি ভেতর ভেতর খুবই উন্মাদ: নোরা ফাতেহি

ইরানের পরমাণু কর্মসূচির জন্য গঠনমূলক পন্থা প্রয়োজন: রাশিয়া


শ্রী ভেঙ্কটেশের ব্যানারে সিনেমাটি প্রযোজনা করবেন দিল রাজু ও শিরিষ। মজার বিষয় হলো, প্রথমবারের মতো তেলেগু সিনেমার কোনো নায়ককে নিয়ে সিনেমা নির্মাণ করছেন শঙ্কর। তামিল, তেলেগু ও হিন্দি ভাষায় মুক্তি পাবে এ সিনেমা।  

রাম চরণের পরবর্তী সিনেমা ‘রুদ্রম রণম রুধিরাম’ বা ‘ট্রিপল আর’। রাজামৌলি পরিচালিত এ সিনেমা চলতি বছরের ১৩ অক্টোবর মুক্তির কথা রয়েছে। এছাড়া ‘আচার্য’ সিনেমায় দেখা যাবে রাম চরণকে। এ সিনেমার কেন্দ্রীয় চরিত্রে অভিনয় করছেন রাম চরণের বাবা চিরঞ্জীবী।

news24bd.tv আহমেদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

আমি ভেতর ভেতর খুবই উন্মাদ: নোরা ফাতেহি

অনলাইন ডেস্ক

আমি ভেতর ভেতর খুবই উন্মাদ: নোরা ফাতেহি

বলিউডে নিজের অবস্থান অনেকটাই পাকাপোক্ত করেছেন নোরা ফাতেহি। সময়ের সেরা আইটেম গার্ল নোরা। নিজের সৌন্দর্য আর নাচের কারিশমায় মুগ্ধতা ছড়িয়েছেন ভক্তদের মাঝে। তবে এর পেছনে আছে অনেক কষ্টের কথা।

সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে বলিউডে কাজ করার অভিজ্ঞতা ও লক্ষ্যসহ বিভিন্ন ইস্যু নিয়ে খোলামেলা কথা বলেছেন নোরা। সাক্ষাৎকারে এই ডান্স কুইন বলেন, আমি ভেতর ভেতর খুবই উন্মাদ, একটু অস্বাভাবিক, ক্ষুধার্ত ও উচ্চাকাঙ্ক্ষী। আমার উচ্চাকাঙ্ক্ষী স্বভাবের জন্য মাঝে মাঝে নিজেকেই ভয় পাই।’

মরক্কান-কানাডিয়ান এই অভিনেত্রী আরও বলেন, ‘শিল্পী পরিচয়টা আমার জন্য বাড়তি পাওয়া। আমি বলিউডে ইতিহাস গড়তে চাই।’ আমার অভিনয়, ডান্স এবং আমার কর্ম দিয়ে মানুষের মাঝে থাকতে চাই।

‘দিলবার’, ‘কোমরিয়া’, ‘ও সাকি সাকি’, ‘গারমি’সহ অনেক জনপ্রিয় গানে কোমর দুলিয়েছেন নোরা ফাতেহি। কেন গ্ল্যামার জগতে পা রেখেছেন প্রশ্ন করা হলে নোরা বলেন, ‘আমি কী ছিলাম বা এখন কী তা জানি না। তবে একটা বিষয় খুব ভালো বুঝতে পারি - আমি নাচতে পছন্দ করি।’

আরও পড়ুন:


ইরানের পরমাণু কর্মসূচির জন্য গঠনমূলক পন্থা প্রয়োজন: রাশিয়া

কম্ব্যাট ড্রোন উৎপাদনের চূড়ান্ত পর্যায়ে ইরান

তামিমার পাসপোর্ট নাকি ডিভোর্স পেপার, কোনটা আসল?

নামাজ এবং জামাআত নিয়ে আল্লাহ ও রাসূলের নির্দেশনা


বলিউডে পা রেখে প্রায় পাঁচ বছর স্ট্রাগল করতে হয়েছে নোরাকে। সবমিলিয়ে অনেক কঠিন সময় পার করেছেন এই ডান্স কুইন। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘আমার জন্য অনেক বড় একটা ধাক্কা ছিল। আমি শুধু শেখার চেষ্টা করেছি। মাঝে মাঝে সুযোগ তৈরি হয়েছে কিন্তু দেখা গেছে, পরক্ষণেই তা হাত ছাড়া হয়ে গেছে।’

নোরার সর্বশেষ গান ‘ছোড় দেঙ্গে’। এই গানে মডেল হয়ে বেশ প্রশংসা কুড়িয়েছেন তিনি। ‘ভূজ: দ্য প্রাইড অব ইন্ডিয়া’ সিনেমায় দেখা যাবে তাকে।

news24bd.tv আহমেদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

অপারেশন সুন্দরবন আসছে ঈদুল আযহায়

অনলাইন ডেস্ক

আসছে ঈদুল আযহায় মুক্তি পাচ্ছে সুন্দরবনে র‍্যাবের দুঃসাহসিক অভিযান নিয়ে নির্মিত সিনেমা “ অপারেশন সুন্দরবন”। ‘ঢাকা অ্যাটাক’ খ্যাত নির্মাতা দীপংকর দীপন নির্মিত সিনেমাটি অফিশিয়াল টিজার মুক্তি পেলো মঙ্গলবার। অপারেশন সুন্দরবনকে বলা হচ্ছে বাংলাদেশের প্রথম ওয়াইল্ডলাইফ অ্যাকশন থ্রিলার। 

সুন্দরবন একটা সময় জলদস্যু দিয়ে ঘেরা ছিল। র‌্যাবের অভিযানে সেই জলদস্যুবাহিনী এখন বিলীন। জলদস্যু মুক্ত করার উপাখ্যান নিয়ে এবার ‘অপারেশন সুন্দরবন’ নামে সিনেমা নির্মাণ করলেন ‘ঢাকা অ্যাটাক’খ্যাত পরিচালক দীপংকর দীপন।

সিনেমাটির টিজার প্রকাশনা ও ওয়েবসাইট উন্মোচন বিষয়ক অনুষ্ঠানকে ঘিরেই এই মিলনমেলা বসে মঙ্গলবার। যেখানে সিনেমার কলাকুশলীদের সাথে উপস্থিত ছিলেন র‌্যাব পুলিশের উর্ধ্বোতন কর্মকর্তারা।

এদিন জানানো হয় দস্যুমুক্ত সুন্দরবন অর্জনে র‌্যাবের ত্যাগ তিতিক্ষা ও সাফল্যগাথার রোমাঞ্চকর উপাখ্যান নিয়ে নির্মিত অপারেশন সুন্দরবন দর্শকদের সামনে আসছে আগামী ঈদুল আযহায়।


উই আর ইনোসেন্ট: সংবাদ সম্মেলনে নাসিরের স্ত্রী তামিমা

টুইটারের নিয়ম ভঙ্গের অভিযোগে ইরান, রাশিয়া ও আর্মেনিয়ায় ৩৭৩টি অ্যাকাউন্ট বন্ধ

সাংবাদিক বুরহান গুলিবিদ্ধ হওয়ার ঘটনাস্থলে পিবিআই

গুজব ছড়াবেন না, তামিমাকে খুব ভালো করেই চিনি: নাসির


বাংলাদেশের প্রথম ওয়াইল্ড লাইফ থ্রিলার ছবি হতে যাচ্ছে অপারেশন সুন্দরবন।  সিনেমায় সুন্দরবনের রূপবৈচিত্র্য তুলে ধরার পাশাপাশি এতে উঠে আসবে প্রান্তিক মানুষদের জলদস্যুদের দ্বারা অত্যাচারিত হওয়া এবং র‌্যাবের অভিযানে সেই জলদস্যু নির্মূল হওয়ার ঘটনা উঠে আসবে বলে জানান আইজিপি ড. বেনজীর আহমেদ।

এর চিত্রনাট্য লিখেছেন যৌথভাবে নাজিম উদ-দৌলা ও দীপংকর দীপন। সিনেমাটির বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করেছেন রিয়াজ, সিয়াম আহমেদ, রোশান, নুসরাত ফারিয়া, শতাব্দী ওয়াদুদ, তাসকিন রহমান, মনোজ প্রামানিকসহ আরও অনেকে।

news24bd.tv নাজিম

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

হাতে নেই ছবি, তবুও কারিশমার বিলাসবহুল জীবনযাপন?

অনলাইন ডেস্ক

হাতে নেই ছবি, তবুও কারিশমার বিলাসবহুল জীবনযাপন?

কারিশমা কাপুর

কারিশমা কাপুর, নব্বইয়ের দশকে রুপালি পর্দা কাঁপানো নায়িকা তিনি। কাপুর পরিবারের সদস্য হিসেবে তিনি অভিনেতা রণধীর কাপুর এবং ববিতার প্রথম কন্যা।

কাপুর পরিবারে বৌ এবং মেয়েদের অভিনয় জগতে আসার উপর নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। কিন্তু মা ববিতার হাত ধরে সেই নিষেধাজ্ঞা উড়িয়ে অভিনয় জগতে পা রাখেন কারিশমা।

অভিনয় দিয়ে তিনি নিজেকে প্রমাণও করেন। তিনি ১৯৯১ সালে, সতের বছর বয়সে অভিনয়ে আত্মপ্রকাশ ঘটান ভারত ভূষণের বিপরীতে প্রেম কয়েদি চলচ্চিত্রের মাধ্যমে।

পরবর্তীকালে তিনি বিভিন্ন বাণিজ্যিকভাবে সফল চলচ্চিত্রে অভিনয় করেন, এর মধ্যে রয়েছে, জিগর (১৯৯২), আনাড়ি (১৯৯৩), রাজা বাবু (১৯৯৪), সুহাগ (১৯৯৪), কুলি ন. ১, গোপী কিষাণ (১৯৯৪), সাজান চালে শাশুড়াল (১৯৯৬) এবং জীত (১৯৯৬)।

১৯৯৬ সালে, কাপুর তার সর্বাধিক বাণিজ্যিক সাফল্য রাজা হিন্দুস্তানী চলচ্চিত্রের জন্যে প্রথম শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রীর ফিল্মফেয়ার পুরস্কার অর্জন করেন, এবং পরবর্তীতে দিল তো পাগল হ্যায় (১৯৯৭) রোমান্টিক নাট্য চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্যে শ্রেষ্ঠ পার্শ্ব অভিনেত্রীর জন্য জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেন। তিনি সমালোচকদের দ্বারা বহুল প্রশংসিত হন ফিজা (২০০০) চলচ্চিত্রে কেন্দ্রীয় চরিত্রে অভিনয়ের জন্যে এবং জুবেইদা (২০০১) চলচ্চিত্রের জন্যে শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী এবং শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী (সমালোচক) ফিল্মফেয়ার পুরস্কার অর্জন করেন। ফলে, কাপুর হিন্দি চলচ্চিত্রের একজন নেতৃস্থানীয় অভিনেত্রী হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করেছেন। তাকে বলিউডের সবচেয়ে সুন্দর নারী হিসেবেও বিবেচনা করা হয়।

সোজা বাংলায় এই তারকা-কন্যা চূড়ান্ত সফল হন পেশাগত জীবনে। সাফল্যের একেবারে শীর্ষে থাকার সময়ই তিনি ব্যবসায়ী সঞ্জয় কাপুরকে ২০০৩ সালে বিয়ে করেন।

তার পর সংসার নিয়ে এতটাই ব্যস্ত হয়ে পড়েছিলেন যে, অভিনয় থেকে বিরতি নিয়ে নেন। পরে নতুন করে অভিনয় জগতে ফিরতে চাইলেও দর্শক তাঁকে আর আগের মতো পছন্দ করেননি।

মূলত কোনও ছবিই তাঁর হাতে এখন নেই। অন্য দিকে ২০১৬ সালে স্বামী সঞ্জয় কাপুরের সঙ্গেও তাঁর বিচ্ছেদ হয়ে যায়। তার পর থেকে ২ সন্তানকে একাই বড় করে তুলছেন কারিশমা।

তারকাদের মানানসই পোশাক, খাবার, ছেলে মেয়েদের স্কুল এবং টিউশন খরচ-কোনও কিছুর সঙ্গেই আপস করতে হয়নি তাঁকে। আগের মতোই বিলাসিতাকে সঙ্গী করে জীবন কাটাচ্ছেন তিনি।

বিলাসবহুল জীবন কাটানোর জন্য বড় অঙ্কের উপার্জনের প্রয়োজন। অথচ খরচ বহন করার জন্য কোনও ছবিই তাঁর হাতে নেই। তাহলে কী ভাবে এই বিশাল খরচের ভার কারিশমা বহন করছেন?

এমনিতেই কাপুর পরিবারের বৈভব নিয়ে আলাদা করে কিছু বলার নেই। মা ববিতা এবং বাবা রণধীর কাপুরের যথেষ্ট সম্পত্তি রয়েছে। যা কারিশমা এবং কারিনা, ২ বোনের মধ্যেই ভাগ হবে পরবর্তীকালে।

তার উপর ২০১৬ সালে স্বামী সঞ্জয়ের সঙ্গে বিচ্ছেদের পর ভরনপোষণের মামলা করেছিলেন কারিশমা। ২ ছেলেমেয়ের জন্য সঞ্জয়কে আলাদা করে ১৪ কোটি টাকা দিতে হয়েছিল।

এ ছাড়া কারিশমার থাকা-খাওয়ার খরচ হিসাবে প্রতি মাসে ১০ লাখ টাকা করে সঞ্জয়কে দিতে হয়।

এ ছাড়া কারিশমা নিজেকে সব সময় কাজের মধ্যে ব্যস্ত রাখেন। কারিশমা অভিনয় জগতে সক্রিয় না থাকলেও বোন করিনার থেকেও তাঁর ব্যস্ততা অনেক বেশি। একটি শো-য়ে করিনা নিজেই এ কথা জানিয়েছিলেন।

কারিশমা আসলে বিভিন্ন সংস্থার সঙ্গে যুক্ত। সেই সমস্ত সংস্থার বিজ্ঞাপনী প্রচারের মুখ কারিশমাই। সেখান থেকেও বড় অঙ্কের টাকা প্রতি মাসে অ্যাকাউন্টে চলে আসে তাঁর।


ক্রাইস্টচার্চে পৌঁছেছে টাইগাররা

স্পেনে ঢুকতে অভিবাসীর অভিনব পন্থা

গোয়েন্দাদের ব্যর্থতাতেই ক্যাপিটলে হামলা

মিয়ানমারের ১০৮৬ নাগরিককে ফেরত পাঠালো মালয়েশিয়া


এছাড়া জাতীয় এবং আন্তর্জাতিক মঞ্চে বিভিন্ন ডিজাইনারের হয়ে র‍্যাম্প ওয়াক করেন তিনি। এই কাজেও বড় অঙ্কের পারিশ্রমিক নেন।

কারিশমার ঘনিষ্ঠ মহল সূত্রে খবর, এ সব করে প্রতি বছর অন্তত ৭২ কোটি টাকা উপার্জন করেন তিনি।

স্বামীর সঙ্গে বিচ্ছেদের পর থেকেই মুম্বাইয়ে থাকেন কারিশমা। বোন কারিনার পোতৌদি বাড়ির কাছেই একটি বাড়িতে ২ সন্তানকে নিয়ে থাকেন তিনি। সূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা

news24bd.tv নাজিম

মন্তব্য

পরবর্তী খবর