ভারতের কৃষক আন্দোলনের ভবিষ্যত কী?

অনলাইন ডেস্ক

ভারতের কৃষক আন্দোলনের ভবিষ্যত কী?

মঙ্গলবার ভারতের রাজধানী দিল্লিতে কৃষকদের ডাকা ট্রাক্টর সমাবেশ অপ্রত্যাশিতভাবে সহিংসতা হয়ে ওঠে। অনেকেই বলছেন এর মাধ্যমে কৃষকরা তাদের বৈধতা হারিয়েছেন। সংস্কার কাজের দাবি বন্ধ রেখে তাদের ঘরে ফিরে আসা উচিৎ। কেউ কেউ আবার বলেছেন, এটা "ভারতের রাজধানী বিদ্রোহ" মুহুর্ত ছিল। খবর বিবিসির।  

সত্যি কথা বলতে গেলে প্রতিবাদকারী একদল কৃষক তাদের নিজেদের জায়গা থেকে সরে এসে পুলিশের সাথে সংঘর্ষ করেছে। ব্যারিকেড ভেঙে দিল্লির ঐতিহাসিক লাল কেল্লা কমপ্লেক্সে হামলা চালায়। সংঘর্ষে একজন বিক্ষোভকারী মারা যান এবং প্রায় ৪০০ পুলিশ আহত হন।

একই সাথে, আন্দোলনে কয়েক হাজার বিক্ষোভকারী ছিল, তাদের মধ্যে অনেকে ট্রাক্টর চালিয়েছিলেন। সহিংসতা আরও ভয়াবহ হতে পারত। বেশিরভাগ বিক্ষোভকারী এবং পুলিশ সহিংসতার পরিণতি জেনেবুঝেই সহিংসতা করেছিল। 

বিক্ষোভকারীরা সমাবেশ শুরু করে এবং সন্ধ্যায় ছত্রভঙ্গ হয়ে যাওয়ার সাথে সাথে রাজধানীর যানজট নিরসন সহজ হয়ে যায়। হাইপারবোল ও সোশ্যাল মিডিয়ায় ক্ষোভ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। ভারতে সাম্প্রতিক সময়ে অনেক মারাত্মক সহিংস বিক্ষোভ দেখা গেছে। 

কৃষক সংগঠনের নেতারা সহিংসতার নিন্দা করেছেন এবং শান্তিপূর্ণ পদযাত্রার মধ্যে দুর্বৃত্তদের বিশৃঙ্খলার জন্যই হামলার দায় চাপিয়ে দিয়েছেন।

দিল্লির সমাবেশের আগের রাতেই, এক প্রতিবাদী তরুণ প্রতিবাদকারীরা একটি প্রতিবাদকারী স্থানে মঞ্চটি গ্রহণ করেছিল। এটা নেতাদের জন্য একটি সতর্ক বার্তা ছিলো।


সবচেয়ে নিরাপদ টিকা অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকা: সেব্রিনা ফ্লোরা

টিকা নিলেন বিএসএমএমইউ উপাচার্য কনক কান্তি বড়ুয়া

বিরাট কোহলি ও তামান্না ভাটিয়াকে আইনি নোটিশ

ইরান প্রতিশ্রুতি রাখলে পরমাণু সমঝোতায় ফিরবে আমেরিকা


কৃষক আন্দোলনের ভবিষ্যত কি?

একটি বিপদ হল মঙ্গলবারের সহিংসতার পরে উভয় পক্ষই তাদের অবস্থানগুলিতে আরও জড়িত হয়ে উঠবে। একাধিক বার আলোচনার পরে এবং আইনটি ১৮ মাস যাবৎ থামিয়ে রাখার প্রস্তাব দেওয়ার পরেও, সরকার আর জড়িত হতে পারে না।

একইসাথে, মূলত পাঞ্জাব এবং হরিয়ানা রাজ্য থেকে আসা কৃষকদের জন্য দেখা দেবে মুশকিল। এই বিক্ষোভকে বাধা দিয়ে এবং ঘরে ফিরে যাওয়াকে আন্দোলনের পরাজয় হিসাবে দেখা হবে।

অন্যদিকে, সরকার আগামী ১লা ফেব্রুয়ারি আসন্ন ফেডারেল বাজেটে কৃষকদের উৎসাহ দিতে এবং তাদের জন্য আরও ছাড় এবং প্রকল্পের ঘোষণা দিতে পারে।

বিক্ষোভকারীরা যতটা উদ্বিগ্ন, বিরোধী রাজনীতিকরা তাদের পক্ষে সংসদে কথা বলার সুযোগ পেয়েছেন। ভারতের বিরোধী দলীয় রাজনীতিকরা কখনোই এই ধরণের সুযোগ হাতছাড়া করেন না।

উভয় পক্ষের মধ্যে এই পঙ্গু বিশ্বাসের ঘাটতি থেকে মুক্তির একমাত্র উপায় বলে মনে হচ্ছে আরও আলোচনা। "কথা বলার চেয়ে কথা বলা চালিয়ে নেওয়া জরুরী। আলোচনায় সময় লাগে," ডাঃ রাঙ্গারাজন বলেছেন।

মঙ্গলবারের সহিংসতা প্রমাণ করে যে গণআন্দোলনের একটি সংহত রাজনৈতিক নেতা প্রয়োজন। এই আন্দোলনটি একটি "নির্দলীয় রাজনৈতিক প্রতিবাদ" হয়ে দাঁড়িয়েছে যার মূল বক্তব্য ধর্ম বা বর্ণ নয়।

যেমনটি সাধারণত ভারতে আন্দোলনের ঘটনা ঘটে। এটি প্রধানত প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বিজেপির নেতৃত্বাধীন একটি শক্তিশালী সরকারের বিরুদ্ধে একটি ইউনিয়নের একটি গ্রুপের "অর্থনৈতিক আন্দোলন" যা ভারতের ২৮ টি রাজ্যের মধ্যে ১ টিতে এককভাবে বা যৌথভাবে। 

তিনি বিশ্বাস করেন যে প্রতিবাদকারীদের নিচু করা, কৃষকদের প্রচুর সহানুভূতি বজায় রাখা, দিল্লী যাওয়ার জন্য আরেকটি পরিকল্পিত পদযাত্রা বন্ধ করা, সরকারের অর্ধেক পথের সাথে সাক্ষাত করা এবং আইনগুলি স্থগিত করার বিষয়ে একমত হওয়া দরকার।

প্রতিবাদকারী ও সরকার উভয় পক্ষের জন্য এটি এখন বিব্রতকর অচলাবস্থায় পরিণত হয়েছে।

সূত্র: বিবিসি

news24bd.tv আয়শা

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

ভারতে থামছেই না করোনার তাণ্ডব

অনলাইন ডেস্ক

ভারতে থামছেই না করোনার তাণ্ডব

ভারতে হু হু করছে বাড়ছে করোনার সংক্রমণ। সেই সঙ্গে লম্বা হচ্ছে মৃত্যুর মিছিল।

দেশটির সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি জানিয়েছে, গতকাল শনিবার দেশটিতে একদিনে এক লাখ ৫২ হাজার ৮৯৭ জন নতুন করে কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত হয়েছেন। যা দেশটির ইতিহাসে একদিনে সর্বোচ্চ করোনা রোগী শনাক্তের নতুন রেকর্ড। 

আজ সংবাদমাধ্যমটি তাদের প্রতিবেদনে আরও জানিয়েছে, নতুন শনাক্তের হার আগের দিনের তুলনায় পাঁচ শতাংশ বেশি।

দেশে করোনায় সর্বোচ্চ মৃত্যুর রেকর্ড

মাওলানা মামুনুলের কথিত দ্বিতীয় স্ত্রী ঝর্ণার বড় ছেলের থানায় জিডি

মাওলানা রফিকুল মাদানীর নামে আরেকটি মামলা, আনা হলো যেসব অভিযোগ

স্বাস্থ্যের তথ্য কর্মকর্তা বলছে পজিটিভ, বেগম জিয়ার চিকিৎসক বলছে বিভ্রান্তিকর


news24bd.tv নাজিম

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

চীনে কয়লাখনিতে বন্যার পানি, অবরুদ্ধ ২১ শ্রমিক

অনলাইন ডেস্ক

চীনে কয়লাখনিতে বন্যার পানি, অবরুদ্ধ ২১ শ্রমিক

বন্যার পানিতে চীনের শিনজিয়াং অঞ্চলের এক কয়লা খনিতে ২১ জন শ্রমিক আটকা পড়েছেন। রোববার দেশটির রাষ্ট্রায়ত্ত বার্তা সংস্থা সিনহুয়া জানিয়েছে, শনিবার স্থানীয় সময় সন্ধ্যা ৬টার পর খনিটির একটি অংশ প্লাবিত হলে সেখানকার বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।

এসময়ে খনিটিতে ২৯ শ্রমিক কাজ করছিলেন বলে প্রকাশিত প্রতিবেদনে বলা হয়েছে। ঘটনার পর আট শ্রমিককে উদ্ধার করা সম্ভব হয়েছে।

আরেক প্রতিবেদনে জানা গেছে, যারা আটকা পড়েছেন তাদের মধ্যে রোববার পর্যন্ত ১২ জনের অবস্থান শনাক্ত করা গেছে এবং তাদের উদ্ধার করা সম্ভব হবে বলে আশা করা হচ্ছে।


আরও পড়ুনঃ


সন্তানদের লড়াই করা শেখান

শুধুমাত্র পরিবারের সদস্যদের নিয়েই হবে প্রিন্স ফিলিপের শেষকৃত্য

বাংলাদেশের জিহাদি সমাজে 'তসলিমা নাসরিন' একটি গালির নাম

করোনা আক্রান্ত প্রতি তিনজনের একজন মস্তিষ্কের সমস্যায় ভুগছেন: গবেষণা


বাকি ৯ জন শ্রমিকের অবস্থান নির্ণয়ের প্রচেষ্টা অব্যাহত আছে বলে জানিয়েছে রাষ্ট্রায়ত্ত গণমাধ্যম।

এর আগে চলতি বছরের জানুয়ারিতে দেশটির পূর্বাঞ্চলে একটি খনিতে বিস্ফোরণের পর ২২ শ্রমিক আটকা পড়েছিলেন। গত বছরের ডিসেম্বরেও দেশটির একটি কয়লা খনিতে আটকা পড়ে ২৩ শ্রমিকের মৃত্যু হয়।

news24bd.tv / নকিব

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

যুক্তরাষ্ট্রের মানবিক সাহায্যের দাবি 'হাস্যকর' বলে উড়িয়ে দিলো উত্তর কোরিয়া

অনলাইন ডেস্ক

যুক্তরাষ্ট্রের মানবিক সাহায্যের দাবি 'হাস্যকর' বলে উড়িয়ে দিলো উত্তর কোরিয়া

মার্কিন সাম্রাজ্যবাদবিরোধী দেশ উত্তর কোরিয়ার বিরুদ্ধে যেসব নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে তাতে সেদেশের জনগণকে টার্গেট করা হয়নি, বরং উত্তর কোরিয়ায় মানবিক সাহায্য পাঠাতে বিভিন্ন দেশ ও আন্তর্জাতিক সংস্থার সঙ্গে সহযোগিতা চালিয়ে যাচ্ছে বলে দাবি করেছে যুক্তরাষ্ট্র।

হোয়াইট হাউজের মুখপাত্র জেন সাকি স্থানীয় সময় শনিবার এক সংবাদ সম্মেলনে দাবি করেন, পিয়ংইয়ং-এর বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা আরোপসহ অন্যান্য যেসব পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে তাতে উত্তর কোরিয়ার জনগণ ক্ষতিগ্রস্ত হয়নি।

ইরানভিত্তিক আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম পার্সটুডে জানায়, যুক্তরাষ্ট্রের অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞার পাশাপাশি করোনাভাইরাসের প্রকোপের কারণে চরম বিপাকে রয়েছে উত্তর কোরিয়া।

পাশাপাশি জাপানের মতো যুক্তরাষ্ট্রের আঞ্চলিক মিত্র দেশগুলিও উত্তর কোরিয়ার পরমাণু অস্ত্র ও ক্ষেপণাস্ত্র কর্মসূচির অজুহাতে দেশটির ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে রেখেছে।


আরও পড়ুনঃ


সন্তানদের লড়াই করা শেখান

শুধুমাত্র পরিবারের সদস্যদের নিয়েই হবে প্রিন্স ফিলিপের শেষকৃত্য

বাংলাদেশের জিহাদি সমাজে 'তসলিমা নাসরিন' একটি গালির নাম

করোনা আক্রান্ত প্রতি তিনজনের একজন মস্তিষ্কের সমস্যায় ভুগছেন: গবেষণা


উত্তর কোরিয়া সাম্প্রতিক সময়ে ঘোষণা করেছে, জো বাইডেনের নেতৃত্বাধীন নয়া মার্কিন প্রশাসন ইমেইল ও টেলিফোন কলের মাধ্যমে পিয়ংইয়ং-এর সঙ্গে আলোচনায় বসার আগ্রহ ব্যক্ত করেছে। 

যুক্তরাষ্ট্রের এই প্রচেষ্টাকে ‘হাস্যকর প্রতারণা’ বলে উড়িয়ে দিয়েছে তারা। এছাড়া যতদিন উত্তর কোরিয়ার বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের বিদ্বেষী নীতি অব্যাহত থাকবে ততদিন তাদের সঙ্গে কোনো আলোচনাও হবে না বলে জানিয়েছে উত্তর কোরিয়া।

news24bd.tv / নকিব

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

শুধুমাত্র পরিবারের সদস্যদের নিয়েই হবে প্রিন্স ফিলিপের শেষকৃত্য

অনলাইন ডেস্ক

শুধুমাত্র পরিবারের সদস্যদের নিয়েই হবে প্রিন্স ফিলিপের শেষকৃত্য

করোনাভাইরাস সংক্রমণের কারণে আরোপিত বিধিনিষেধের কারণে ডিউক অব এডিনবার্গ প্রিন্স ফিলিপের শেষকৃত্যে থাকবেন না ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন। শুধুমাত্র পরিবারের সদস্যদের নিয়েই তার শেষকৃত্য অনুষ্ঠিত হবে।

আগামী শনিবার (১৭ এপ্রিল) প্রিন্স ফিলিপের শেষকৃত্যের আয়োজন করা হবে যেখানে তার সন্তান, নাতি-নাতনি ও পরিবারের ঘনিষ্ঠরাসহ মাত্র ৩০ জন উপস্থিত থাকতে পারবেন। এমনকি জনসাধারণকেও এ অনুষ্ঠান এড়িয়ে যাওয়ার অনুরোধ করা হয়েছে।


আরও পড়ুনঃ


নিউইয়র্ককে টপকে এখন বিলিয়নিয়ারদের শহর বেইজিং

মাওলানা মামুনুলের রিসোর্ট কাণ্ডে 'পুরুষশুন্য' কয়েক গ্রাম!

ফেসবুকে আপনার তথ্য ফাঁস হয়েছে কিনা যেভাবে জানবেন

করোনা আক্রান্ত প্রতি তিনজনের একজন মস্তিষ্কের সমস্যায় ভুগছেন: গবেষণা


উইন্ডসরের সেন্ট জর্জ চ্যাপেলে এই শেষকৃত্য অনুষ্ঠান আয়োজন করা হবে।

গত শুক্রবার উইন্ডসর ক্যাসেলে ব্রিটিশ রানী দ্বিতীয় এলিজাবেথের স্বামী প্রিন্স ফিলিপ মৃত্যুবরণ করেন। তার বয়স হয়েছিল ৯৯ বছর।

news24bd.tv / নকিব

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

ভূমিকম্পে ইন্দোনেশিয়ায় শতাধিক ভবন ধস, নিহত ৮

অনলাইন ডেস্ক

ভূমিকম্পে ইন্দোনেশিয়ায় শতাধিক ভবন ধস, নিহত ৮

ইন্দোনেশিয়ায় ভয়াবহ ভূমিকম্পে এ পর্যন্ত ৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। আহত হয়েছেন আরও অন্তত ১২ জন। এরমধ্যে দুইজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানা গেছে। এছাড়াও বেশ কয়েকটি শহরের শতাধিক ভবন ধসে পড়েছে বলে দেশটির দুর্যোগ প্রশমন সংস্থা জানিয়েছে। খবর এএফপির।

শনিবার (১০ এপ্রিল) দেশটির পূর্ব জাভা, বালি দ্বীপসহ বেশ কয়েকটি প্রদেশে এ ভূমিকম্প অনুভূত হয়। রিখটার স্কেলে কম্পনের মাত্রা ছিল ৬।

দেশটির দুর্যোগ প্রশমন সংস্থা জানিয়েছে, ভূমিকম্পটির গভীরতা ছিল ভূপৃষ্ঠ থেকে ৮২ কিলোমিটার (৫০ মাইল)। এর কেন্দ্র ছিল পূর্ব জাভা দ্বীপের মালাং শহর থেকে প্রায় ৪৫ কিলোমিটার দূরে। ভূমিকম্প কবলিত এলাকার বেশ কয়েকটি গ্রামের বাসিন্দাদের সরিয়ে নেয়া হয়েছে। তবে সুনামি সতর্কতা জারি করা হয়নি।

আরও পড়ুন


ইউক্রেন সীমান্তে ‘ইস্কান্দার’ ক্ষেপণাস্ত্র মোতায়েন করেছে রাশিয়া

কি এমন দোয়া যা বিপদে পড়লেও করতে নিষেধ করেছেন প্রিয় নবী

রমজানুল মোবারক শুরুর আগে যে ১১ প্রস্তুতি নেয়া জরুরি

হাজী মাস্তান কর্নেল আকবরের গোপন বিয়ে রাম রহিম কাহিনি


স্থানীয় বাসিন্দা ইডা ম্যাগফিরোহ বার্তা সংস্থা এএফপিকে বলেন, ভূমিকম্পটি বেশ শক্তিশালী ছিল এবং এটি বেশ কিছুক্ষণ ধরে স্থায়ী হয়েছে। তিনি বলেন, সবকিছুই যেন কাঁপছিল।

প্রশান্ত মহাসাগরীয় রিং অব ফায়ারে অবস্থানের কারণে ইন্দোনেশিয়ায় প্রায়ই ভূমিকম্প আঘাত হানে। এর আগে ২০১৮ সালে সুলায়েশি দ্বীপের পালুতে ৭ দশমিক ৫ মাত্রার শক্তিশালী ভূমিকম্পে ৪ হাজার তিনশোর বেশি মানুষ মারা যায় বা নিখোঁজ হয়েছিল।

news24bd.tv আহমেদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর