তেলের জাহাজ আটকালে সৌদিতে বড় সামরিক অভিযানের হুমকি ইয়েমেনের

অনলাইন ডেস্ক

তেলের জাহাজ আটকালে সৌদিতে বড় সামরিক অভিযানের হুমকি ইয়েমেনের

ইয়েমেনের সুপ্রিম পলিটিক্যাল কাউন্সিল বলেছে, ইয়েমেনে জনগণের দুর্ভোগের অবসান ঘটাতে সক্ষম তারা। কাউন্সিল আরো বলেছে, সৌদি আরব যদি ইয়েমেনের তেলের জাহাজ আটকে রাখে তাহলে রিয়াদের বিরুদ্ধে বড় ধরনের সামরিক অভিযান চালানো হবে।

ইয়েমেনের কয়েকটি তেলবাহী জাহাজ সৌদি আরব আটকে রাখার প্রেক্ষাপটে যখন ইয়েমেনের বহুসংখ্যক হাসপাতাল এবং ক্লিনিক বন্ধ হওয়ার উপক্রম তখন এই হুমকি দেয়া হলো।

আরও পড়ুন: 


মৃত নারী-শিশু ও তরুণীদের সঙ্গে সেলফি তুলত মুন্না

বাঘ-হরিণ শিকার রোধে রেডঅ্যালার্ট

ভাষাসৈনিক খোন্দকার মালেক আর নেই


সৌদি আরবের পক্ষ থেকে ইয়েমেনের তেলবাহী জাহাজ আটক করার কারণে দেশটির জনগণ মারাত্মক রকমের জ্বালানি সংকটে ভুগছে।

২০১৫ সাল থেকে সৌদি আরব ও তার কয়েকটি মিত্র আরব দেশ দারিদ্রপীড়িত ইয়েমেনের বিরুদ্ধে সামরিক আগ্রাসন চালিয়ে আসছে। এ কারণে বর্তমান বিশ্বে সবচেয়ে বড় ধরনের মানবিক সংকটের মুখে রয়েছে ইয়েমেন। অথচ বিশ্বের বেশিরভাগ দেশ এ বিষয়ে নীরব।

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

জন্ম নেওয়া শিশুর বাবা দাবি করলেন তিন যুবক

অনলাইন ডেস্ক

জন্ম নেওয়া শিশুর বাবা দাবি করলেন তিন যুবক

নবজাত একটি মেয়ে শিশুর পিতৃত্বের দাবি নিয়ে হাসপাতালে হাজির হয়েছেন তিন যুবক। এ ঘটনায় হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ বিপাকে পড়েছেন। বাধ্য হয়ে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ নেতাজিনগর থানায় খবর দেন।

চাঞ্চল্যকর এ ঘটনা ঘটেছে ভারতের কলকাতার একটি হাসপাতালে। এমব খবর প্রকাশ করে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম।

খবর অনুযায়ী, শনিবার স্বপ্না মৈত্র নামে সন্তানসম্ভবা এক নারীকে গাঙ্গুলীবাগানের এক বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করান দীপঙ্কর পাল নামে এক যুবক। সে সময় তিনি স্বপ্নার স্বামী হিসেবে নিজেকে পরিচয় দেন। রোববার স্বপ্না একটি মেয়ে সন্তান জন্ম দেন। এরপর স্বপ্না সদ্য ভূমিষ্ঠ মেয়ের ছবি দিয়ে হোয়াটসঅ্যাপে স্ট্যাটাস দেন। স্বপ্নার ওই স্ট্যাটাস দেখে হর্ষ ক্ষেত্রী নামে নিউটাউনের এক বাসিন্দা হাসপাতালে হাজির হন। তিনি দাবি করেন, মেয়ে ও স্ত্রী তার।

এদিকে রোববার দুজনই সন্তান ও স্ত্রীর দাবি করায় হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তাদেরকে হাসপাতালে ঢুকতে দেননি। স্বপ্নার কেবিনের সামনে নিরাপত্তা কর্মী বসিয়ে দেওয়া হয়। খবর দেওয়া হয়েছে থানায়।


সবইতো চলছে, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান কেন ঈদের পরে খুলবে: নুর

আইন চলে ক্ষমতাসীনদের ইচ্ছেমত: ভিপি নুর

রাঙামাটিতে বিজিবি-বিএসএফের পতাকা বৈঠক

৭৫০ মে.টন কয়লা নিয়ে জাহাজ ডুবি, শুরু হয়নি উদ্ধার কাজ


নিউটাউনের বাসিন্দা হর্ষ অবশ্য ম্যারেজ সার্টিফিকেটসহ কয়েকটি প্রমাণ দেখান। হাতে প্রমাণ পেয়ে পুলিশ ও হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ যখন একটু স্বস্তিবোধ করছেন তখনই ঘটনা অন্যদিকে মোড় নেয়।

এরই মধ্যে হাসপাতালে হাজির হন প্রদীপ রায় নামে আরও এক ব্যাক্তি। তিনিও স্বপ্না ও মেয়েকে তার স্ত্রী-সন্তান বলে দাবি করেন। 

জটিলতা বাড়ায় আর কোনো ঝুঁকি নেয়নি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

এদিকে, ওই শিশুর বিষয়ে তার মা স্বপ্না এখনো কোনো মন্তব্য করেননি। কিন্তু মেয়ে আসলে কার- এর উত্তর খুঁজতে তদন্ত করছে পুলিশ।

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

সমন্বিত অংশীদারিত্বের পথে হাঁটছে ঢাকা-দিল্লি

লাকমিনা জেসমিন সোমা

কোভিড পরবর্তী অর্থনৈতিক চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় ভারতের সাথে সমন্বিত অংশীদারিত্বের ভিত্তিতে কাজ করবে বাংলাদেশ। ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্করের আসন্ন সফরে এ বিষয়ে চূড়ান্ত রুপরেখা তৈরি হবে বলে আভাস দিয়েছেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম। তবে মধ্যম আয়ের দেশ হিসেবে প্রতিবেশীর সাথে বাংলাদেশের এমন উদ্যোগে চীন বা কারোর-ই উদ্বিগ্ন হওয়ার কোন কারণ নেই বলেও মন্তব্য করেন তিনি। 

চলতি মাসে মুজিব বর্ষের অনুষ্ঠানে যোগ দিতে ঢাকায় আসছেন প্রতিবেশী ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। মোদির সফরসূচী চূড়ান্ত করতে কাল বৃহস্প্রতিবার ঢাকায় আসছেন দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয় শঙ্কর।

তবে শুধু সফরসূচি না ওই দিন দুপুরে ঢাকা-দিল্লি বৈঠকে উঠবে আরো কিছু গুরুত্বপূর্ণ এজেন্ডা; জানান পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম।

সমন্বিত অর্থনৈতিক অশিদারিত্বের ভিত্তিতে কাজ শুরু করবে বাংলাদেশ-ভারত। প্রশ্ন ওঠে অর্থনৈতিক উন্নয়নে দুই দেশের সমন্বিত এই উদ্যোগে কি অখুশি হবে বাংলাদেশের আরেক বন্ধু চীন?


পুলিশ হেফাজতে আইনজীবীর মৃত্যু: বিচার বিভাগীয় তদন্তের নির্দেশ

ভাসানচরে যাচ্ছে দুই হাজারের বেশি রোহিঙ্গা

‘অসম প্রেমে’ পড়েছেন সাদিয়া ইসলাম মৌ

ব্যানারে নেই বেগম জিয়া, এনিয়ে বিস্তর আলোচনা


করোনার কারণে থমকে থাকা আমদানি-রপ্তানি কিছুটা সচল করতে স্থলবন্দর খোলা নিয়ে নতুন ঘোষণা আসতে পারে জয়শঙ্করের মুখে।

অভিন্ন ছয় নদীর পানি ভাগাভাগি নিয়েও চূড়ান্ত আলোচনা হবে, আর তিস্তা ইস্যু কখনোই তার গুরুত্ব হারাবে না বলেও উল্লেখ করে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী। 

news24bd.tv নাজিম

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

মিয়ানমারে রক্ত ঝরছেই

অনলাইন ডেস্ক

মিয়ানমারে রক্ত ঝরছেই

মিয়ানমারে নিরাপত্তা রক্ষীদের গুলিতে নিহত বেড়ে নয়ে দাঁড়িয়েছে। বুধবার প্রত্যক্ষদর্শী ও স্থানীয় সংবাদ মাধ্যমের বরাতে এ প্রতিবেদন প্রকাশ করে আন্তর্জাতিক বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

খবর অনুযায়ী, মান্দালয় ও মনুয়ায় গুলিতে আহত হয়েছেন অনেক বিক্ষোভকারী। মান্দালয়ে দুজন নিহত হয়েছেন। চারজন মারা গেছেন মনুয়ায়। এছাড়া ইয়াঙ্গুন এবং মিইয়ইগেইনে আরও তিনজনের নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।


সবইতো চলছে, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান কেন ঈদের পরে খুলবে: নুর

আইন চলে ক্ষমতাসীনদের ইচ্ছেমত: ভিপি নুর

রাঙামাটিতে বিজিবি-বিএসএফের পতাকা বৈঠক

৭৫০ মে.টন কয়লা নিয়ে জাহাজ ডুবি, শুরু হয়নি উদ্ধার কাজ


প্রত্যক্ষদর্শী এক চিকিৎসক বলেছেন, মান্দালয়ে নিহতদের একজনের বুক ভেদ করে গুলি ঢুকেছে। দ্বিতীয় একজন নারী। ১৯ বছর বয়সী ওই তরুণীর মাথায় গুলিবিদ্ধ হয়েছে। দুজনই ঘটনাস্থলে মারা যান।

ফ্রন্টিয়ার ম্যাগাজিন জানায়, মান্দালয়ে হাজার হাজার মানুষের সমাবেশে পুলিশ প্রথমে টিয়ার গ্যাস ও রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে। জনতা ছত্রভঙ্গ হয়ে যায়। কিছু সময় পরে তারা ফের একই স্থানে সমবেত হওয়ার চেষ্টা করলে পুলিশ গুলি চালায়।

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

ফেব্রুয়ারিতে চাঙ্গা ছিল যুক্তরাষ্ট্রের উৎপাদন খাত

অনলাইন ডেস্ক

গেল মাসে চাহিদা বৃদ্ধিতে সক্ষমতার পরিচয় দিয়েছে খাতটি। মঙ্গলবার যুক্তরাষ্ট্রের ইন্সিটিউট ফর সাপ্লাই ম্যানেজমেন্টের প্রকাশিত উপাত্তে উঠে এসেছে তথ্য। 

আইএসএমের উপাত্তের বরাতে এএফপি জানায়, গেল মাসে যুক্তরাষ্ট্রের ম্যানুফ্যাকচারিং সূচক বেড়ে ৬০ দশমিক ৮ শতাংশে দাঁড়িয়েছে। যা ২০১৮ সালের ফেব্রুয়ারির পর সর্বোচ্চ সম্প্রসারণ। উৎপাদন খাতের পিএমআই টানা নয় মাস ধরে রয়েছে ৫০ পয়েন্টের ওপর, যা মার্কিন ম্যানুফ্যাকচারিং খাতের সম্প্রসারণের ইঙ্গিত দিচ্ছে। 


পুলিশ হেফাজতে আইনজীবীর মৃত্যু: বিচার বিভাগীয় তদন্তের নির্দেশ

ভাসানচরে যাচ্ছে দুই হাজারের বেশি রোহিঙ্গা

‘অসম প্রেমে’ পড়েছেন সাদিয়া ইসলাম মৌ

ব্যানারে নেই বেগম জিয়া, এনিয়ে বিস্তর আলোচনা


ফেব্রুয়ারিতে এ খাতের ১৮টি শিল্পের মাত্র দুটিতে সংকোচন লক্ষ্য করা গেছে। একই চিত্র গেল জানুয়ারিতেও ছিল। উৎপাদন খাতের সম্প্রসারণের পাশাপাশি যুক্তরাষ্ট্রের মূলসূচকও বেড়েছে বলে জানিয়েছে এএফপি।

news24bd.tv নাজিম

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

মিয়ানমারে বিক্ষোভকারীদের সেবা দিয়ে প্রতিবাদ জানাচ্ছেন চিকিৎসকেরা

অনলাইন ডেস্ক

মিয়ানমারে বিক্ষোভকারীদের সেবা দিয়ে প্রতিবাদ জানাচ্ছেন  চিকিৎসকেরা

মিয়ানমারে চলমান বিক্ষোভে পুলিশ ও সেনাবাহিনীর সদস্যরা চিকিৎসকদেরও আক্রমণ করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। চিকিৎসকদের অভিযোগ, জায়গায় জায়গায় রাস্তা বন্ধ করে মোবাইল হেলথ ভ্যান আটকে দেয়া হচ্ছে। যাতে চিকিৎসকরা আহত বিক্ষোভকারীদের কাছে না পৌঁছাতে পারে।

বহু কম বয়সী ডাক্তার বিক্ষোভে অংশ নিয়েছেন। তবে তারা রাস্তায় নেমে বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন না। বিক্ষোভকারীদের চিকিৎসার ব্যবস্থা করছেন।

তাদের দাবি, সবচেয়ে বেশি রোগী আসছেন মাথায় আঘাত নিয়ে। কারণ, ব্যাটন দিয়ে মারার সময় পুলিশ এবং সেনা বিক্ষোভকারীদের মাথায় আঘাত করছে। একই সঙ্গে রাবার বুলেটের ক্ষত নিয়েও বহু বিক্ষোভকারী চিকিৎসা করাচ্ছেন।

হাসপাতালের আউটডোরগুলো ভরে রয়েছে আহত বিক্ষোভকারীদের ভিড়ে। এছাড়াও বহু চিকিৎসক মোবাইল ভ্যান নিয়ে বিক্ষোভস্থলে চলে যাচ্ছেন। ঘটনাস্থলেই চিকিৎসার ব্যবস্থা করছেন তারা। কিন্তু তাতেও আহত চিকিৎসা পুরোপুরি সম্ভব হচ্ছে না বলে তাদের দাবি।


আমাকে ‘বলির পাঁঠা’ বানানো হয়েছে: সামিয়া রহমান

ভারতে বাড়ছে গাধার চাহিদা!

ভারতের মাদ্রাসায় পড়ানো হবে বেদ, গীতা, সংস্কৃত

এই নচিকেতা মানে কী? আমি তোমার ছোট? : মঞ্চে ভক্তকে নচিকেতার ধমক (ভিডিও)


বহু ক্ষেত্রে গুরুতর আহতদের চিকিৎসা করতে না দিয়ে পুলিশ গ্রেফতার করছে বলে অভিযোগ। সেনা এবং পুলিশ হাসপাতালে গিয়েও তাণ্ডব চালিয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

গত রবিবার সেনার গুলিতে ১৮ জন আন্দোলনকারীর মৃত্যু হয়েছে। তারপর পরিস্থিতি আরও অগ্নিগর্ভ হয়ে উঠেছে। দেশের এক-তৃতীয়াংশ সরকারি কর্মী হরতাল শুরু করেছেন। চিকিৎসকরাও আন্দোলনে যোগ দিয়েছেন। সে কারণেই তাদের উপর আক্রমণ নেমে আসছে বলে অভিযোগ।

সূত্রঃ ডয়চে ভেলে

news24bd.tv / নকিব

মন্তব্য

পরবর্তী খবর