চার মাসে চার রেল দুর্ঘটনা; সিলেটেই কেন?

সৈয়দ রাসেল

চার মাসে চার রেল দুর্ঘটনা; সিলেটেই কেন?

দুর্ঘটনার জন্য আলোচিত ট্রেন রুট সিলেট। শেষ চার মাসে দুর্ঘটনা ঘটেছে চারবার। স্থানীয়রা বলছেন, নিয়মিত তদারকির অভাব আর রেল কর্মীদের গাফিলতিতেই ঘটছে দুর্ঘটনা।

রেলমন্ত্রীর দাবি, কারণ চিহ্নিত করে এরই মধ্যে নেওয়া হয়েছে বিশেষ প্রকল্প। কাজ শেষ হলেই কমে আসবে দুর্ঘটনা।

২৪ জুন ২০১৯। সিলেট থেকে ঢাকাগামী উপবন এক্সপ্রেস ট্রেন মৌলভীবাজারের কুলাউড়ার বরমচাল এলাকায় দুর্ঘটনায় পড়ে। নিহত হয় চারজন। আহত হন অর্ধশতাধিক।

২০২০ সালের ৭ নভেম্বর। সিলেট আখাউড়া রেলসেকশনের শ্রীমঙ্গল উপজেলার সাতগাঁও স্টেশনের অদুরে তেলবাহীর ছয়টি বগি লাইনচ্যুত হয়ে সারা দেশের সঙ্গে সিলেটের রেলযোগযোগ বন্ধ হয়ে যায়।

আরও পড়ুন:


স্তন ঝুলে যায় কেন?

৯টা-৫টা ডেস্ক ওয়ার্ক সম্ভব না: ভারতের সর্বকনিষ্ঠ পাইলট

যেকোনো মুহূর্তে সরকার পতন: রিজভী

ধর্ষণের পর শিক্ষার্থীর মৃত্যু, চিকিৎসক বলছেন ‘ভিন্ন কথা’


রেল সূত্রগুলো বলছে, শেষ চার মাসে সিলেট রুটে মালবাহী ট্রেন লাইনচ্যুত হয়েছে ৩ বার।

প্রত্যেকবার দুর্ঘটনার পর গঠিত হয় তদন্ত কমিটি। কিন্তু কোনো প্রতিবেদনই আলোর মুখ দেখেনি।

রেলমন্ত্রী বলছেন, এই রুটে দুর্ঘটনা রোধে বিশেষ একটি প্রকল্পের কাজ চলছে। শেষ হলে দুর্ঘটনা কমে আসবে বলেও জানান তিনি।

নিরাপদ যাত্রার বাহন ট্রেন বাংলাদেশে বারবারই দুর্ঘটনার কবলে পড়ে। এতে ক্ষতি হয় রাষ্ট্রীয় সম্পদের। প্রাণ যাচ্ছে নিরীহ মানুষের।

যাত্রীদের দাবি, দ্রুত কারণ অনুসন্ধান করে নেওয়া হোক কার্যকর পদক্ষেপ।

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

মুকুলে ছেয়ে গেছে দিনাজপুরের লিচুর বাগান

পরিচর্যায় ব্যস্ত বাগানিরা

ফখরুল হাসান পলাশ, দিনাজপুর

মুকুলে ছেয়ে গেছে দিনাজপুরের লিচুর বাগান

লিচুর জন্য বিখ্যাত দিনাজপুর জেলা। আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় বাগান গুলোতে গেল কয়েক বছরের চেয়ে লিচুর মুকুল এসেছে লক্ষ্য করার মততো। এরই মধ্যে বাগানিরা লিচু বাগানের পরিচর্যায় ব্যস্ত সময় পার করছে। প্রাকৃতিক কোনো দুর্যোগ না হলে ভালো ফলনের আশা করছেন তারা। তবে কৃষকদের অভিযোগ কৃষি অফিস থেকে লিচু চাষিদের সব ধরনের পরামর্শ দিয়ে যাচ্ছেন।


গণধর্ষণের চেষ্টায় ব্যর্থ হয়ে কলেজছাত্রীর গায়ে আগুন

বাবার সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে রাতধর ধর্ষণের শিকার মেয়ে

৩০-৩২ গার্লফ্রেন্ড থাকার পরও আমাকে ভালোবাসত নাসির: তামিমা

আমার সব প্রশ্নের জবাব ইসলামে পেয়েছি: কানাডিয়ান নারী


লিচু জেলা দিনাজপুর। এরই মধ্যে এ জেলার ছোট বড় সব বাগানেই গাছে গাছে লিচুর মুকুলে ছেয়ে গেছে। ফাগুনের হাওয়ায় দুলছে এই সব লিচুর মুকুল। বাগানীরাও তাই ব্যস্ত সময় পার করছে লিচু গাছ পরিচর্যায়। প্রতি বছর এ জেলায় লিচুর বাগান বৃদ্ধি পেলেও কৃষি অফিসের তথ্য মতে ছোট বড় সব মিলিয়ে প্রায় সাড়ে ৫ হাজার হেক্টর জমিতে লিচুর বাগান রয়েছে এবং বাগান আছে প্রায় সাড়ে তিন হাজার। প্রতিবছর এই জেলায় লিচু উৎপাদন হয় ২৫ হাজার মেট্রিক টনের বেশি।

এবার বাম্পার ফলনের আশা করছে লিচু চাষিরা। তবে আবহাওয়া অনুকূলে থাকলে গতবারের তুলনায় ভালো ফলন হবে বলে মনে করছেন লিচু চাষিরা।

বাগানীরাও বেশ পরিচর্যায় ব্যস্ত সময় পার করছে। গাছে পানি সেচ, কিটনাশক স্প্রে, সার দেয়াসহ সব ধরনের পরিচর্যা করেছে তারা।

অপরদিকে কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক কৃষিবিদ তৌহিদুল ইকবাল জানান, ভালো ফলনের জন্য কৃষকদের সব ধরনের পরামর্শ দিয়ে যাচ্ছেন। তবে এ বছর লিচুর মুকুল কিছুটা আগাম এসেছে বলে জানালেন এই কর্মকর্তা। বম্বাই, মাদ্রাজী, বেদানা, কাঠালী, চায়না থ্রীসহ বিভিন্ন জাতের লিচুর বাগান রয়েছে এখানে। এ জেলায় সবচেয়ে বেশি লিচুর বাগান রয়েছে সদর ও বিরল উপজেলায়।

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

৯৯৯ এ কল ডুবে যাওয়া জাহাজের ১১ নাবিক উদ্ধার

অনলাইন ডেস্ক

৯৯৯ এ কল ডুবে যাওয়া জাহাজের ১১ নাবিক উদ্ধার

এম ভি বোরহান সরদার নামের এক সিমেন্ট ক্লিংকার বাহী লাইটার জাহাজ ১১ জন নাবিক সহ চট্টগ্রাম বন্দর থেকে মোংলা বন্দরের উদ্দেশ্যে যাত্রা করেছিল ২৪ ফেব্রুয়ারি বুধবার সকালে। মেঘনা নদীর লক্ষীপুরের, রামগতি থানাধীন গজারিয়ার চর এলাকায় যখন তারা পৌঁছায় তখন রাত নেমে আসে। নদীতে তখন কুয়াশার কারণে তাদের দৃষ্টিসীমা কমে গিয়েছিল। সেখানে নোঙ্গর করে রাত কাটিয়ে সকালে রওনা দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয় তারা।

রাত তখন সাড়ে এগারোটা। কুয়াশার কারণে দিকভ্রান্ত হয়ে সেতু ৬ নামে একটি জাহাজ তাদের নোঙর করা জাহাজকে প্রচণ্ড জোরে ধাক্কা দিয়ে চলে যায়। ধাক্কায় তাদের জাহাজের তলা ফেটে পানি উঠতে শুরু করে। কুয়াশার কারণে চারপাশে পরিষ্কার কিছুই দেখা যাচ্ছিল না। তারা বাঁচাও বাঁচাও অনেক চিৎকার করেছিল কিন্তু মাঝ রাতে মাঝ নদীতে কেউ তাদের সাহায্যে এগিয়ে আসেনি। ইতিমধ্যে ঘণ্টাখানেক কেটে গেছে। রাত তখন সাড়ে বারোটা, ক্যালেন্ডারের তারিখ পালটে হয়ে গেছে ২৫ ফেব্রুয়ারি। জাহাজে পানি উঠে এক পাশ কাত হয়ে গেছে, যেকোন সময় পুরো জাহাজ ডুবে যেতে পারে। হঠাৎ মো. সোহেল নামে এক নাবিকের মনে হলো শেষ চেষ্টা হিসেবে ৯৯৯ এ ফোন করে দেখা যাক।


সেই দুই ভাইয়ের সাড়ে ৫ হাজার বিঘা জমি, ৫৫টি বাস ক্রোকের নির্দেশ

দেশে করোনার সর্বশেষ মৃত্যু-শনাক্তের তথ্য

টিকা নেয়ার ১২ দিন পর ত্রাণ সচিবের করোনা শনাক্ত

চাকায় ওড়না পেঁচিয়ে রাস্তায় পড়ে মারা গেলো মেয়েটি


৯৯৯ যখন মো. সোহেলের ফোন কলটি রিসিভ করে রাত তখন একটা বাজতে এক মিনিট বাকি। ৯৯৯ তাৎক্ষণিক ভাবে নৌ পুলিশ নিয়ন্ত্রণ কক্ষে বিষয়টি জানায়। নৌ পুলিশ নিয়ন্ত্রণ কক্ষ থেকে বিষয়টি লক্ষীপুরের বড়খেরী নৌ পুলিশ ফাঁড়িকে জানানো হয়। ঘটনাস্থল বড়খেরী নৌ পুলিশ ফাঁড়ি থেকে নৌপথে ১২/১৩ কিমিঃ দূরত্বে অবস্থিত। 

সংবাদ পেয়ে বড়খেরী নৌ পুলিশ ফাঁড়ির একটি দল উদ্ধারকারী নৌযান যোগে ঘটনাস্থলের উদ্দেশ্যে রওনা দেয় রাত দুইটার দিকে । কিন্তু কুয়াশার কারণে দৃষ্টিসীমা কম থাকায় তাদের যথেষ্ট সাবধাণে এবং ধীরে নৌ পথে অগ্রসর হতে হয়েছে। অবশেষে ভোর পাঁচটার টার একটু পরে কুয়াশাচ্ছন্ন মেঘনা নদী থেকে একটি মাছ ধরা ট্রলারের সহযোগিতায় নদীতে লাইফ জ্যাকেট পরে ভাসমান অবস্থায় ১১ জন নাবিককে উদ্ধার করা হয়েছে।

ইতিমধ্যে এম ভি বোরহান সর্দার ১ সম্পূর্ণ রূপে নিমজ্জিত হয়ে গেছে। উদ্ধারকৃত নাবিকদের নিরাপদে তীরে নিয়ে আসা হয়েছে এবং তারা সবাই সুস্থ আছেন।

news24bd.tv / কামরুল 

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

দু'নম্বরি করলে লুকিয়ে বিয়ে করতাম: নাসির (ভিডিও)

অনলাইন ডেস্ক

দু'নম্বরি করলে লুকিয়ে বিয়ে করতাম: নাসির (ভিডিও)

আমরা যদি দু'নম্বরি করতাম তাহলে লুকিয়ে বিয়ে করতাম। এতো লোক সমাগমে করতাম না। নিউজ টোয়েন্টিফোরকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে এমন কথা বলেছেন ক্রিকেটার নাসির হোসেন।

বুধবার বিকাল পাঁচটার দিয়ে সংবাদ ব্রিফিংয়ে আসেন নাসির, তামিমা, তাদের আইনজীবীসহ বেশ কয়েকজন। এসময় প্রথমে কথা বলেন নাসিরের আইনজীবী।

নাসিরের আইনজীবীর বক্তব্যের পর কথা বলেন তামিমা তাম্মি। তামিমার ডান পাশেই বসা ছিলেন নাসির।

অনুষ্ঠানের ভিডিওতে দেখা যায়, তামিমা শুরুতেই রাকিবের অভিযোগ মিথ্যা বলে দাবি করেন। তবে তামিমা বলেন, রাকিব যেসব কথা বলেছেন তার মধ্যে মাত্র দুইটি কথা সত্য। এক, রাকিবের সঙ্গে আমার বিয়ে হয়েছিল। দ্বিতীয়, আমাদের একটি মেয়ে আছে।

তামিমা এসব কথা বলার সময় একটু বিব্রত বোধ করেন। এসময় নাসির তাকে পিঠ চাপড়ে স্বাভাবিক করার চেষ্টা করেন। তামিমা তখন হেসে দেন।

ভিডিও দেখতে ক্লিক করুন

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

বাগেরহাটে গাঁজা গাছসহ আটক ১

বাগেরহাট প্রতিনিধি

বাগেরহাটে গাঁজা গাছসহ আটক ১

বাগেরহাটের ফকিরহাটে গাঁজা গাছসহ মো. জোবায়ের শেখ (২০) নামের এক গাঁজা চাষীকে আটক করেছে র‌্যাব-৬ এর সদস্যরা। মঙ্গলবার গভীর রাতে ফকিরহাট উপজেলার দিয়াপাড়া মাদারবুনিয়া গ্রামের ফারুক শেখের বাড়িতে অভিযান চালিয়ে পুকুর পাড় থেকে জোবায়েরকে আটক করে র‌্যাব সদস্যরা। 

এ সময় পুকুর পাড় থেকে ৫টি গাঁজা গাছ জব্দ করা হয়। আটককৃত জোবায়ের শেখ দিয়াপাড়া মাদারবুনিয়া গ্রামের মো. ফারুক শেখের ছেলে। আটককৃতের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়ের পূর্বক ফকিরহাট থানায় সোপর্দের প্রস্তুতি চলছে। 

আরও পড়ুন:


স্ত্রীকে সৌদি পাঠিয়ে ৮ বছরের মেয়েকে নিয়মিত ধর্ষণ করে বাবা

বন্ধুর স্ত্রীর ‘গোপন ভিডিও’ ধারণ, ভয় দেখিয়ে আটমাস ধরে ‘ধর্ষণ’

কুমিল্লাগামী বাসে দরজা-জানালা বন্ধ করে তরুণীকে ধর্ষণ!

কলাইক্ষেতে নারীর অর্ধনগ্ন মরদেহ, পাশে পাজামা-ছাতা-স্যান্ডেল


র‌্যাব-৬ এর সহকারী পরিচালক (মিডিয়া) মাহাবুব আলম জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-৬ এর একটি দল মঙ্গলবার রাতে ফকিরহাট উপজেলার দিয়াপাড়া মাদারবুনিয়া গ্রামের ফারুক শেখের বাড়িতে অভিযান চালায়।

এ সময় সেখান থেকে জোবায়ের শেখ নামের এক যুবককে ৫টি গাঁজা গাছসহ আটক করা হয়। পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়ের পূর্বক ফকিরহাট থানায় হস্তান্তরের প্রস্তুতি চলছে।

news24bd.tv / কামরুল 

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

খুলনায় প্রতিপক্ষের ধারাল অস্ত্রের কোপে যুবক নিহত

নিজস্ব প্রতিবেদক, খুলনা:

খুলনায় প্রতিপক্ষের ধারাল অস্ত্রের কোপে যুবক নিহত

খুলনার তেরখাদায় জমি নিয়ে বিরোধে প্রতিপক্ষের ধারালো অস্ত্রের কোপে বাবর আলী (৩৮) নামের এক যুবক নিহত হয়েছেন। আজ (বুধবার) সন্ধ্যায় তেরখাদার বলকধুনা নামক স্থানে এ ঘটনা ঘটে। 

নিহত বাবর ওই এলাকার বজলার শেখের ছেলে। এ ঘটনায় আরও তিনজন গুরুতর জখম হয়। তাদেরকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আহতরা হলেন- মো. আহাদ শেখ (৩৫), জাকারিয়া (৩০) ও আজিজুল (৩৫)। 


ক্রাইস্টচার্চে পৌঁছেছে টাইগাররা

স্পেনে ঢুকতে অভিবাসীর অভিনব পন্থা

গোয়েন্দাদের ব্যর্থতাতেই ক্যাপিটলে হামলা

মিয়ানমারের ১০৮৬ নাগরিককে ফেরত পাঠালো মালয়েশিয়া


তেরখাদা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) গোলাম মোস্তফা জানান, জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে এ হামলার ঘটনা ঘটেছে। জানা যায়, বাবর আলীসহ কয়েকজন বিরোধপূর্ন জমিতে কাজ করছিলেন। এসময় অতর্কিতে প্রতিপক্ষের লোকজন তাদের ওপর ধারালো অস্ত্র নিয়ে হামলা করে। 

ধারাল রামদা’র কোপে বাবর আলীসহ চারজন গুরুতর জখম হলে স্থানীয়রা তাদেরকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যায়। তবে পথিমধ্যে বাবর আলী মারা যায়। পুলিশ এ ঘটনায় কাউকে গ্রেপ্তার করতে পারেনি।  

news24bd.tv / কামরুল 

মন্তব্য

পরবর্তী খবর