জিয়ার খেতাব বাতিলের প্রতিবাদে বিএনপির বিক্ষোভ

নিজস্ব প্রতিবেদক

জিয়ার খেতাব বাতিলের প্রতিবাদে বিএনপির বিক্ষোভ

সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের রাষ্ট্রীয় খেতাব বাতিলের সিদ্ধান্তের প্রতিবাদে রাজধানীতে  বিক্ষোভ মিছিল করেছে বিএনপি।

আজ দুপুরে রাজধানীর নয়াপল্টন দলীয় কার্যালয়ের সামনে থেকে বিক্ষোভ মিছিলটি শুরু হয়। মিছিলটি নাইটিঙ্গেল মোড় ঘুরে ফের নয়াপল্টনের সামনে সংক্ষিপ্ত সমাবেশের মাধ্যমে শেষ হয়।


সম্মানবোধের শিক্ষাটা আসে পরিবার থেকে: সামিয়া রহমান

শ্রমিক নেয়াসহ যে বিষয় নিয়ে আলোচনা হল মালদ্বীপের সাথে

যে তাসবিহ পাঠ করলে অধিক নেকি লাভ ও গোনাহ মাফ হয়


বিক্ষোভ মিছিলে নেতৃত্ব দেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী এবং ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপির সভাপতি ও দলটির যুগ্ম-মহাসচিব হাবিব-উন-নবী খান সোহেল।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

খালেদা জিয়ার অক্সিজেন কম লাগছে: ডা. জাহিদ

অনলাইন ডেস্ক

খালেদা জিয়ার অক্সিজেন কম লাগছে: ডা. জাহিদ

রাজধানীর বসুন্ধরায় এভারকেয়ার করোনারি কেয়ার ইউনিটে (সিসিইউ) চিকিৎসাধীন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থা স্থিতিশীল রয়েছে।

সোমবার রাতে তার ব্যক্তিগত চিকিৎসক ও দলের ভাইস চেয়ারম্যান ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন বলেন, ম্যাডামের শারীরিক অবস্থা স্থিতিশীল, অক্সিজেন এখন কম লাগছে। সকালে হাসপাতালের গঠিত মেডিকেল বোর্ডের সদস্যরা খালেদা জিয়াকে দেখেছেন। এ সময় তিনি বিএনপি চেয়ারপারসনের সুস্থতার জন্য দেশবাসীর দোয়া চান।

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

এর চেয়ে বড় মানবতা আর কী হতে পারে: হানিফ

অনলাইন ডেস্ক

এর চেয়ে বড় মানবতা আর কী হতে পারে: হানিফ

বিএনপির চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার অসুস্থতা নিয়ে রাজনীতি করা হচ্ছে অভিযোগ করে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ বলেছেন, খালেদা জিয়ার সুস্থতাই এখন সবচেয়ে জরুরি। অথচ বিএনপির কাছে তার সুস্থতার চেয়ে অসুস্থতা নিয়ে রাজনীতি করা মুখ্য হয়ে দাঁড়িয়েছে। তার অসুস্থতা নিয়ে রাজনীতি করে তারা রাজনীতির পরিবেশ নষ্ট করতে চায়।

আজ সোমবার ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের দুঃস্থদের মাঝে খাদ্য এবং ঈদ উপহার বিতরণ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ আহ্বান জানান।

তিনি বলেন, যেখানে আইনি প্রক্রিয়ায় খালেদা জিয়ার জামিন হয় নাই, সেখানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মানবতার দরজা খুলে দিয়ে খালেদা জিয়াকে মুক্ত করে বাসায় রাখার ও চিকিৎসা দেওয়ার ব্যবস্থা করেছেন। এর চেয়ে বড় মানবতা আর কী হতে পারে?

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বলেন, এতোদিন আমরা শুনেছিলাম যে, উন্নত চিকিৎসার জন্য খালেদা জিয়াকে বিদেশ পাঠানো জরুরি। এখন মির্জা ফখরুল বললেন, রাজনীতি থেকে দূরে রাখতে সরকার তাকে বিদেশ পাঠাচ্ছে না। তার মানে উন্নত চিকিৎসা নয়, রাজনীতি করার জন্য বিদেশ পাঠানোর দাবি, যেটা মির্জা ফখরুলের বক্তব্যে প্রমাণিত।

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

কারাগারেই থাকতে হচ্ছে রফিকুল মাদানিকে

অনলাইন ডেস্ক

কারাগারেই থাকতে হচ্ছে রফিকুল মাদানিকে

পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষের ঘটনায় করা মামলার তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত কারাগারে থাকতে হবে রফিকুল ইসলাম মাদানিকে। সোমবার মতিঝিল থানার মামলায় রিমান্ড শেষে তাকে আদালতে হাজির করে পুলিশ। পরে তাকে আটক রাখার কথা বলেন আদালত।

শুনানি শেষে ঢাকা মহানগর হাকিম নিভানা খায়ের জেসি আবেদন মঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন বলে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী আজাদ রহমান জানান।

এর আগে, রাজধানীর মতিঝিল থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে করা মামলায় সাত দিনের রিমান্ড শেষে বৃহস্পতিবার তাকে ঢাকা মহানগর হাকিম আদালতে হাজির করে পুলিশ।

তাকে আটক রাখার আবেদন করলে ঢাকা মহানগর হাকিম দেবব্রত বিশ্বাস তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

পরবর্তী খবর

খালেদা জিয়ার বিষয়

সরকারি সিদ্ধান্তকে 'নজিরবিহীন' বলে মন্তব্য করেছে জেডআরএফ

অনলাইন ডেস্ক

সরকারি সিদ্ধান্তকে 'নজিরবিহীন' বলে মন্তব্য করেছে জেডআরএফ

জিয়াউর রহমান ফাউন্ডেশন (জেডআরএফ) মন্তব্য করে বলেছে, বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে বিদেশে উন্নত চিকিৎসার সুযোগ না দেওয়ার সরকারি সিদ্ধান্ত 'নজিরবিহীন'।

আজ সোমবার এক বিবৃতিতে জেডআরএফের নির্বাহী পরিচালক অধ্যাপক ডা. ফরহাদ হালিম ডোনার এ সিদ্ধান্তে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন।

রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালের করোনারি কেয়ার ইউনিট- সিসিইউতে ভর্তি আছেন খালেদা জিয়া। তাকে করোনা পরিবর্তী জটিলতাসহ অন্যান্য চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে বলে জানিয়েছে বিএনপি।

তিনি বলেন, বিএনপির চেয়ারপারসন একজন ৭৬ বছরের বয়স্কা নারী। সম্প্রতি করোনায় আক্রান্ত হন তিনি। এছাড়াও আরও বেশ কিছু জটিল রোগে আক্রান্ত খালেদা জিয়া করোনায় আক্রান্ত হলে তাকে রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

তিনি আরও বলেন, খালেদার বিদেশে চিকিৎসার আবেদন মঞ্জুর না করা থেকেই প্রমাণিত হয়, বর্তমান সরকার তার জীবন নিয়ে ছিনিমিনি খেলছে। তারা তাকে বিদেশে উন্নত ও সুচিকিৎসার সুযোগ দিচ্ছে না। অথচ মানবতার কাছে আইন কোনো বিষয় নয়।

সরকারি সিদ্ধান্তে প্রতিবাদ জানিয়ে জেডআরএফের নির্বাহী পরিচালক বলেন, খালেদা জিয়া শুধু বিএনপির চেয়ারপারসন নন তিনি বাংলাদেশের তিন তিনবারের নির্বাচিত সাবেক প্রধানমন্ত্রী। বর্তমান সরকার মহামারী করোনা পরিস্থিতির মধ্যে বিষয়টি মানবিক দিক বিবেচনায় নিয়ে তাকে বিদেশে চিকিৎসার সুযোগ দিতে পারতো।

জেডআরএফের বিবৃতিতে বলা হয়, বিশেষ বিবেচনায় অতীতে হিংস্র খুনি থেকে কুখ্যাত মাস্তানদের পর্যন্ত রাষ্ট্রপতির ক্ষমা পাওয়ার নজির রয়েছে। অথচ দেশে দেশে রাষ্ট্রপ্রধান কর্তৃক এই ক্ষমা করার বিধান রয়েছে শুধু চরম মানবিক বিষয় বিবেচনার জন্য।

news24bd.tv / কামরুল  

পরবর্তী খবর

খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থার কিছুটা উন্নতি

অনলাইন ডেস্ক

খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থার কিছুটা উন্নতি

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থার কিছুটা উন্নতি হয়েছে বলে জানিয়েছেন এভারকেয়ার হাসপাতালের দায়িত্বশীল একজন চিকিৎসক।

তিনি জানান, খালেদা জিয়ার শ্বাসকষ্ট অনেকটাই কমে গেছে। এখন বেশিরভাগ সময়ই তিনি স্বাভাবিকভাবে শ্বাসপ্রশ্বাস নিচ্ছেন। মাঝে মাঝে প্রয়োজনে এক লিটার অক্সিজেন দেওয়া হচ্ছে তাকে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ওই চিকিৎসক আরও জানান, বিএনপি চেয়ারপারসনের ডায়াবেটিসের মাত্রা কয়েকদিন ধরে বেশি ছিল। তবে গতকাল থেকে ধীরে ধীরে ডায়াবেটিসের মাত্রা কমে আসতে শুরু করেছে।

করোনায় আক্রান্ত হয়ে গত ২৭ এপ্রিল থেকে রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন তিনি।

গত ৩ মে তার শ্বাসকষ্ট দেখা দিলে কেবিন থেকে সিসিইউ-তে স্থানান্তর করা হয়। এরপর শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটলে পরিবারের পক্ষ থেকে বিদেশে নিয়ে চিকিৎসার আবেদন করা হয়। পরে সাজাপ্রাপ্ত আসামির বিদেশে গিয়ে চিকিৎসা নেওয়ার কোনো বিধান নেই বিদ্যমান আইনে।

news24bd.tv / কামরুল  

পরবর্তী খবর