শিমের বিচির কাবাব

অনলাইন ডেস্ক

শিমের বিচির কাবাব

শিমের বিচি খুব পুষ্টিকর খাবার। অনেকেরই পছন্দের সবজির তালিকায় আছে শিমের নাম। এটি খুবই সুস্বাদু ও পুষ্টিকর। শিম, শিমের বিচি এবং শিমের পাতাও শাক হিসেবে খাওয়া যায়। শিমের বিচিতে রয়েছে উচ্চমানের ফাইবার প্রোটিন, যা শরীরের জন্য খুবই প্রয়োজন। এতে কোনো কোলেস্টেরল নেই। এনার্জি বা শক্তির জন্য শিমে রয়েছে শতকরা ২০ ভাগ প্রোটিন ও উচ্চমাত্রার কার্বোহাইড্রেট সহজেই পাওয়া যায় এমনটি খাবার। এবার জানানো হবে শিমের বিচির কাবাব বানানোর নিয়ম।

রাজমা বা শিমের বিচি- ৩০০ গ্রাম

পেঁয়াজ কুঁচি- আধ কাপ

আদা রসুন পেস্ট- ১ চামচ

আলু -২টা সেদ্ধ করা


পরকীয়া প্রেম: রাতভর আটকে রেখে গৃহবধূকে গণধর্ষণ

কোভিডে টরন্টোয় বন্দুক সন্ত্রাস বেড়েছে, বাংলাদেশিদের সতর্কতার পরামর্শ

ইসলামে নাম ব্যঙ্গ করার পরিণাম কী?

সূরা তাওবায় কেন ‘বিসমিল্লাহ’ নেই, কি বিষয়ে সূরাটি নাযিল

কুরআন শরিফ ছিড়ে গেলে ইসলামের নির্দেশনা কি?

যে কারণে দোয়া কবুল হয় না


গরম মসলার গুঁড়া-১ চা চামচ

নারকেল কোড়ানো- আধা কাপ

লবণ- পরিমাণ মতো

কাঁচামরিচ কুচি- ইচ্ছামতো

পুদিনা কুচি- ১ চামচ

ডিম- একটি

কর্নফ্লাওয়ার- ২ চামচ

প্রণালি: পুরো ১২ ঘণ্টা শিমের বিচি ভিজিয়ে রাখুন। এরপর সেদ্ধ করে নিন। সেদ্ধ রাজমার সঙ্গে আলু সেদ্ধ ও সমস্ত মসলা দিয়ে মিক্স করে ভালো করে ভুনে নিন। এরপর ভুনা রাজমা বা শিমের বিচি ও আলু ভালো করে পাটায় পিষে নিন। নারকেল কোড়া ও কর্নফ্লাওয়ার ও ডিম মিশিয়ে শামী কাবাবের আকৃতি দিন। ডুবো তেলে লালচে করে ভেজে তুলুন। বাড়ির নিরামিষভোজী ব্যক্তিটিকে কাবাবের স্বাদ দিন।

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

পুডিং তৈরির রেসিপি

অনলাইন ডেস্ক

পুডিং তৈরির রেসিপি

পুডিং শুনলেই ডিমের কথা মনে আসে সবার আগে। ডিম, দুধ, চিনির মিশ্রণে তৈরি পুডিংই আমাদের কাছে পরিচিত।  ডেজার্ট হিসেবে এর তুলনা অতুলনীয়। পুডিং খুবই মুখরোচক খাবার। পুডিং রান্নার সহজ একটি রেসিপি আজকে দেওয়া হল। মাত্র একটি ডিম দিয়ে পুডিং তৈরির ফলে গন্ধই থাকবে না। আর যেমন মজাদার তেমনই নরম তুলতুলে হবে।

উপকরণ:

তরল দুধ দেড় লিটার। ডিম ১টি (বড় অথবা মাঝারি)। চিনি পরিমাণ মতো। ক্যারামেল এর জন্য দানাদার চিনি ১ চা-চামচ। পানি ১ চা-চামচ। ঘি আধা চা-চামচ।

চিনি, ঘি ও পানি একটি টিফিন বক্সে মিশিয়ে নিন। তারপর চুলার উপর ফ্রাইপ্যান অথবা তাওয়া দিয়ে টিফিন বক্সটি তার উপর বসিয়ে চুলায় জ্বাল দিন। বেশি আঁচে হালকা বাদামি রং হলেই নামিয়ে নিন ।

পদ্ধতি: 

প্রথমে দুধ জ্বাল দিয়ে ঘন করে নিন। জ্বাল দেওয়ার সময় নাড়তে থাকুন তানাহলে নিচে পুড়ে লেগে যাবে। আবার অল্প আঁচে অনেক সময় নিয়ে দুধ কমালে দুধের রং লালাচে হয়ে যাবে। তাই মাঝারি আঁচে দুধ জ্বাল দিয়ে কমিয়ে নিতে হবে। দুধ ঘন করে আধা কেজির বেশি রাখবেন।

সফট পুডিং তৈরি করতে চাইলে জ্বাল দিয়ে ৬০০ থেকে ৭০০ মিলি লিটার দুধ রাখতে হবে।

দুধ ও ডিমের মিশ্রণ যেন স্টিলের টিফিন বক্সের সামান্য কম হয়। তবে আরেকটু শক্ত পুডিং তৈরি করতে চাইলে দুধ আধা কেজি কমিয়ে নেবেন। দুধ চুলা থেকে নামিয়ে ঠাণ্ডা করে নিন।

একটি বড় পাত্রে ডিম ভেঙে চামচ দিয়ে ভালো করে ফেটে দুধে ঢেলে ভালো করে মেশান। পুডিং তৈরির জন্য একটি স্টিলের ঢাকনাসহ টিফিন বক্স নিন। অথবা যে পাত্রে পুডিং তৈরি করবেন সে পাত্রে আগে থেকেই ক্যারামেল তৈরি করে রাখুন।

ক্যারামেল বেশি জ্বাল দেবেন না। তাহলে চিনি পুড়ে কালো ও তিতা হয়ে যাবে। অল্প বাদামি রং হলেই নামিয়ে নেবেন। কারণ শেষের দিকে চিনি দ্রুত পুড়ে যায়।


চীন-মার্কিন সংঘাত দু’দেশের স্বার্থের পরিপন্থি: ব্লিঙ্কেন

ইতিকাফের ফজিলত

তৃণমূল ত্যাগী নেতাদের দলে ফেরা নিয়ে যা বললেন মমতা

শৈলকুপায় বিল থেকে নারীর মরদেহ উদ্ধার


এবার দুধ ও ডিমের মিশ্রণ ভালো করে নেড়ে বক্সে ঢেলে দিন। প্রেশার কুকারে বক্স বসিয়ে বক্সের অর্ধেক পর্যন্ত পানি দিয়ে ঢাকনা লাগিয়ে দিন। মাঝারি আঁচে পাঁচ, ছয়টি শিশ দিলেই নামিয়ে নিন। নরম থাকতে পারে চিন্তার কিছু নেই ঠাণ্ডা হলে ফ্রিজে রাখলে ঠিক হয়ে যাবে। আর যদি বেশি নরম থাকে তবে আরও দুতিন শিশ দিয়ে নামিয়ে নিন।

অতিরিক্ত শিশ দিলে পুডিং শক্ত হয়ে আসল স্বাদ চলে যাবে। ঠাণ্ডা করে পুডিং ফ্রিজে এক,দুই ঘণ্টা রাখুন। ফ্রিজ থেকে বের করে ঠাণ্ডা ঠাণ্ডা পরিবেশন করুন।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

ইফতারে প্রশান্তি পেতে বাঙ্গির শরবত

অনলাইন ডেস্ক

ইফতারে প্রশান্তি পেতে বাঙ্গির শরবত

স্বাদে ততটা মিষ্টি না হলেও বাঙ্গির পুষ্টিগুণ অনেক। শরীর ঠান্ডা রাখার পাশাপাশি এই ফলটি পানিশূন্যতা দূর করতে পারে। ভিটামিন সি, শর্করা ও ক্যারোটিন সমৃদ্ধ বাঙ্গি শরীরের জন্য খুবই উপকারী।

নিয়মিত বাঙ্গির শরবত খেলে খাবারে অরুচি, নিদ্রাহীনতা, আলসার ও অ্যাসিডিটি দূর হয়। এ ফলে নেই কোনো চর্বি বা কোলেস্টেরল। তাই বাঙ্গি খেয়ে মোটা হয়ে যাওয়ার ভয়ও নেই।

বাজারে এখন বাঙ্গি সহজলভ্য। গরমে ও ইফতারে প্রশান্তি পেতে এ সময় খেতে পারেন এ ফলটি। অনেকেই বাঙ্গি খেতে পছন্দ করে না। তারা চাইলেই তৈরি করে নিতে পারে বাঙ্গির মজাদার শরবত। জেনে নিন তৈরির রেসিপি-

উপাদান

১. বাঙ্গির টুকরো ২ কাপ
২. চিনি ২ টেবিল চামচ
৩. লেবুর রস এক চা চামচ
৪. দই এক টেবিল চামচ
৩. বিট লবণ এক চিমটি
৪. বরফ কিউব পরিমাণমতো
৫. পুদিনা পাতা

পদ্ধতি

প্রথমে বাঙ্গি কেটে টুকরো করে নিন। এরপর ব্লেন্ডারে বাঙ্গি, চিনি, দই, লেবুর রস ও বিট লবণ একসঙ্গে দিয়ে ভালো করে ব্লেন্ড করে নিন।


আরও পড়ুনঃ


ভারতে ৭১ বছর পর কোন নারীর ফাঁসি!

ইন্দোনেশিয়ার সাবমেরিনটির ক্রুদের বিদায়ী সঙ্গীত (ভিডিও)

দোকানে খুচরা চুরি করে ধরা খেলেন দুই পাকিস্তানি কূটনীতিক!

দিল্লিতে করোনায় মৃতের সৎকার সংখ্যার সাথে সরকারি সংখ্যার হিসাবে গরমিল


বেশি ঘন হলে প্রয়োজন অনুসারে পানি মিশিয়ে নিয়ে ভালো করে ব্লেন্ড করুন। খেয়াল রাখবেন যাতে মিশ্রণটি একটু পাতলা হয়। তাহলে ছেঁকে নিতে সুবিধা হবে।

এরপর ছেঁকে নিন গ্লাসে। বরফ কুচি ও পুদিনা পাতা দিয়ে সাজিয়ে পরিবেশন করুন মজাদার বাঙ্গির শরবত। ইফতারে বাঙ্গির শরবত মুহূর্তেই প্রশান্তি আনবে।

news24bd.tv / নকিব

পরবর্তী খবর

ইফতারে কাঁচা আমের শরবত

অনলাইন ডেস্ক

ইফতারে কাঁচা আমের শরবত

চলছে পবিত্র রমজান মাস। সারাদিন রোজা রাখার পর ইফতারে একটু শরবত খেলে মন্দ হয় না। আজকে আমাদের আয়োজন কাঁচা আমের শরবত নিয়ে।

আসুন এটি তৈরির প্রক্রিয়াটা একটু জেনে নেই:

উপকরণ: পাতলা স্লাইজ করে কাটা আম ১ কাপ, লবণ এক টেবিল চামচ, চিনি স্বাদমতো, লেবুর রস ১ চাচম( ইচ্ছে হলে), পুদিনা পাতা ৮-১০-টা, ধনে পাতা আধা চা চামচ, ঠান্ডা পানি প্রয়োজন অনুযায়ী।


বিচারক পরিচয়ে প্রেম, অত:পর ধর্ষণ

ফিতরার গুরুত্ব ও ফজিলত

দোকানপাট-শপিংমল খুলছে আজ

স্নাতক পাসে নিয়োগ দেবে চালডাল লিমিটেড


প্রস্তুত প্রণালী: প্রথমে টুকরা করা আমগুলো ব্লেন্ডারে দিয়ে ব্লেন্ড করুন। এরপর পুদিনা পাতা ছাড়া এক এক করে অন্য উপকরণগুলো যোগ করুন। ঠান্ডা পানি মিশিয়ে চাহিদা অনুযায়ী পাতলা বা ঘন রাখুন। গ্লাসে ঢেলে পুদিনা পাতা দিয়ে সাজিয়ে পরিবেশন করুন।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

রমজানে করোনা রোগীদের খাবার

অনলাইন ডেস্ক

রমজানে করোনা রোগীদের খাবার

অতিমারি ভাইরাস করোনার মধ্যে গত বছরের পর এবার পাড় করছি পবিত্র মাহে রমজান। বর্তমানে করোনাভাইরাস ঠেকাতে সবাই ঘরে অবস্থান করছেন। আর এবার রোজা পালনেও বেশকিছু নিয়ম কানুন মেনে চলতে হচ্ছে।

সচেতনতার পাশাপাশি অবশ্যই সঠিক পুষ্টি চাহিদা পূরণ করার লক্ষ্যে সঠিক খাবার গ্রহণ করতে হবে।

রোজার সময় পুষ্টিকর খাবার ও স্বাস্থ্যবিধি নিয়ে পরামর্শ দিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর।

বলা হয়েছে ‘যারা রোজা থাকবেন, তাদের ইফতারের পরের খাওয়া-দাওয়া নিয়ে সচেতন থাকতে হবে। বেশি বেশি পুষ্টিকর খাবার খেতে হবে। লেবু, আদা দিয়ে শরবত খেতে পারেন। গরম পানি দিয়ে গারগল করতে পারেন। পাশাপাশি অন্যান্য স্বাস্থ্যবিধি যেগুলো রয়েছে, সেগুলোও সবাইকে যথাযথভাবে মেনে চলতে হবে।

করোনা রোগীদের করণীয়: করোনা আক্রান্ত রোগীদের রোজা রাখার উপায় থাকে না। যারা যারা করোনা আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি আছেন তারা তো রোজা রাখতে পারবেন না। তাদের শ্বাসকষ্ট, ডিহাইড্রেশন থেকে শুরু করে নানা সমস্যার জন্য মেডিসিন নিতে হয়, তাই ইচ্ছা থাকলেও সেটা সম্ভব নয়।


করোনা নিয়ন্ত্রণে ব্যর্থ সরকার লকডাউনের নামে চালাচ্ছে শাটডাউন: ফখরুল

আব্দুল মতিন খসরু লাইফ সাপোর্টে

ওবায়দুল কাদের কিংবা জাহিদ মালেক যদি এই ডিগ্রিটা পেতেন, তখন কী করতাম: সুমন্ত আসলাম

শ্রীপুরে মসজিদে অচেতন থাকা ব্যক্তিকে উদ্ধা


করোনা আক্রান্ত যারা বাসায় চিকিৎসা নিচ্ছেন  (শতকরা ৮০ শতাংশ), যাদের মৃদু সংক্রমণ হয়েছিল তাদের মধ্যে যারা সুস্থতা অনুভব করেন তারা রোজা রাখতে পারবেন। তবে যদি এক্ষেত্রে রোগীদের ডায়াবেটিস থাকে তাহলে ডাক্তারের পরামর্শ নিতে হবে।

করোনায় সেরে ওঠা কিংবা টেস্টে পজিটিভ হবার পরও কোনও উপসর্গ দেখা না দিলে তারা ইফতারের সময় থেকে সাহরি পর্যন্ত প্রচুর পরিমাণে পানি জাতীয় খাবার খাবেন। বিশেষ করে ইফতার থেকে শুরু করে সেহরি পর্যন্ত কমপক্ষে সাড়ে তিন লিটার পানি খেতে হবে।

ইফতারে ভিটামিন ও মিনারেল সমৃদ্ধ খাবার: বিশেষজ্ঞরা বলছেন, করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে সবাইকে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে অ্যান্টি অক্সিডেন্ট সমৃদ্ধ খাবার গ্রহণ করার কথা বলা হয়। ভিটামিন সি, এ , ডি  ও সেলেনিয়াম যুক্ত খাবার গ্রহণ করলে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি পায়। তাই ইফতারে এসব খাবার রাখা জরুরি। 

ইফতারে নরম, সহজে হজমযোগ্য, পুষ্টিকর খাবার ইফতার মেন্যুতে রাখতে হবে। যেমন: এক গ্লাস শরবত, দু’টি খেজুর, ডাল-চাল ও সবজির তৈরি খিচুড়ি এবং ফলের সালাদ। এটি একটি হেলদি (স্বাস্থ্যকর) ইফতার মেন্যু। 

সাহরি: সঠিক পরিমাণের সেহরি আপনাকে এনার্জিটিকভাবে রোজা পালনে সাহায্য করবে। সাধারণ সময়ে দুপুরের খাবার আসলে সেহেরিতে খেলে ভালো।

যেমন: ভাত, সুসিদ্ধ সবজি ও মাছ সবচেয়ে উত্তম খাবার। তবে যারা মাছ খেতে পারেন না তারা মুরগির মাংস বা ডিম খেতে পারবেন।  চাইলে দুধ ভাত আর কলা বা খেজুর খেতে পারেন।

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

রমজানে নতুন রান্না নিয়ে হাজির কেকা ফেরদৌসি

অনলাইন ডেস্ক

রমজানে নতুন রান্না নিয়ে হাজির কেকা ফেরদৌসি

শুরু হয়েছে পবিত্র মাহে রমজান। এ মাসে নতুন নতুন রান্নার রেসিপি সবারই প্রিয়। বিশেষ করে ইফতারে সকলেই চায় একটু ভিন্ন রেসিপি। সুস্বাদু ও নতুন রেসিপি তৈরিতে বাড়ির বধূরাও তাই চোখ রাখেন টিভির পর্দায়। তাই তাদের জন্যে নতুন রান্না নিয়ে হাজির আলোচিত বিখ্যাত রন্ধনশিল্পী কেকা ফেরদৌসি।

টিভি পর্দায় কেকা ফেরদৌসি আপনাদের সামনে তুলে ধরবেন প্রতিদিন নতুন কোন রেসিপি। চ্যানেল আইয়ের পর্দায় প্রতিদিন দুপুরে বিচিত্ররকমের খাবারের রেসিপি পাবেন কেকা ফেরদৌসির কাছ থেকে।

রান্না বিষয়ক এই অনুষ্ঠানের কথা নিজেই ফেসবুকে জানিয়েছেন কেকা ফেরদৌসি। লিখেছেন, পবিত্র রমজান মাসে চ্যানেল আই এর ডিজিটালে প্রতি দিন দুপুর ৩টা ৩০ মিনিটে দেখুন ঐক্য ডট কম ডট বিডি এবং আকবরিয়া প্রিমিয়াম লাচ্ছা সেমাই প্রেজেন্টস 'কেকা ফেরদৌসীর সাথে নতুন উদ্যোক্তার রান্না।'

আরও পড়ুন


শিমুলিয়া ঘাটে অপেক্ষায় শতশত ট্রাক, যাত্রী পারাপার বন্ধ

স্ট্যাটাস দিয়ে মনে করিয়ে দেয়ার দরকার নেই আপনি রোজাদার

শারীরিক জটিলতা নেই, ফিরোজাতেই ভালো আছেন খালেদা জিয়া

সোনামসজিদ স্থল বন্দরে আমদানি-রপ্তানি বন্ধ


এক সাক্ষাৎকারে কেকা ফেরদৌসি তার রান্নার অনুপ্রেরণার কথা জানিয়েছিলেন। মা প্রখ্যাত কথাসাহিত্যিক রাবেয়া খাতুনের হাতের খাবার ভীষণ ভালোবাসেন কেকা ফেরদৌসী। মায়ের হাতের খাবারের বিশেষ একটি বৈশিষ্ট্যের কথা জানালেন তিনি। কাটলেট তৈরির সময় চিংড়ির লেজ লাগিয়ে দিতেন খাবারের সৌন্দর্য বাড়ানোর জন্য। খাবারের এত সুন্দর পরিবেশনা মুগ্ধ করতো কেকা ফেরদৌসীকে। রান্নার প্রতি আগ্রহ বাড়ত। সাধারণ রান্নাকেও শিল্প মনে হতো তখন।

news24bd.tv আহমেদ

পরবর্তী খবর