নায়ক মান্নার মৃত্যু রহস্য নিয়ে মুখ খুললেন স্ত্রী শেলী

অনলাইন ডেস্ক

নায়ক মান্নার মৃত্যু রহস্য নিয়ে মুখ খুললেন স্ত্রী শেলী

নতুন মুখের সন্ধানে প্রতিযোগিতার মধ্যে দিয়ে সিনেমার জগতে যাত্রা শুরু হয়েছিলো প্রয়াত চিত্রনায়ক মান্নার। ক্যারিয়ারের শুরুতে একক নায়ক হওয়ার সৌভাগ্য তার হয়নি। এজন্য অনেক কাঠখড় পোড়াতে হয়েছিলো। কাশেম মালার প্রেম সিনেমাটি হিট হওয়ার পর মান্নার জীবনের গল্প বদলে যায়। তারপর মান্না হয়ে উঠেছিলেন ঢাকাই সিনেমার যুবরাজ। কিন্তু  চিত্রনায়ক মান্নার মৃত্যু এখন পর্যন্ত স্বাভাবিকভাবে নিতে পারেনি তার ভক্তরা। তার স্মরণে চোখের জল আসে অজস্র অনুরাগীর। আগামীকাল বুধবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) চিত্রনায়ক মান্নার প্রয়াণের ১৩ বছর পূর্ণ হবে।

২০০৮ সালের ১৭ ফেব্রুয়ারি রাজধানীর ইউনাইটেড হাসপাতালে মারা যান মান্না। কিন্তু স্বামীর মৃত্যুকে কোনোভাবেই স্বাভাবিক মানতে রাজি নন মান্নার স্ত্রী শেলী। সাংবাদিকদের কাছে তিনি বলেন,মান্নাকে সঠিক সময়ে সঠিক চিকিৎসা দেওয়া হয়নি। কোনো প্রস্তুতি না রেখেই মান্নাকে হার্টের ইনজেকশন দেওয়া হয়েছে, যেটা উন্নত বিশ্বের চিকিৎসা শাস্ত্রে ঘটে না।


আমার বয়ফ্রেন্ড নিয়ে আমিও মজায় আছি : নাসিরের সাবেক প্রেমিকা

সুশান্তের দেখানো পথে তারই সহ-অভিনেতার আত্মহনন!

তিন মাসের ছুটি নিয়ে দেড় বছর যাবত যুক্তরাষ্ট্রে শিক্ষিকা

এআরও পদে নিয়োগ দেবে ব্যাংক এশিয়া


মান্নার মৃত্যু কিভাবে হয়েছে সে বিষয়ে এ বছরই শুনানি হবে জানিয়ে শেলী মান্না বলেন, ‘মান্নার মতো একজন মানুষের যদি এই অবস্থা হয় তাহলে একজন সাধারণ মানুষের কী অবস্থা হবে? এই বছরই একটা শুনানি হবে। এই শুনানি হলে হয়তো আমরা একযুগ পরে হলেও ন্যায়বিচার পাব। মানুষ জানবে যে মান্না কিভাবে মারা গেছে। ভুল চিকিৎসা, দেরিতে চিকিৎসা এসবই মান্নার জীবনে ঘটেছে।’

মান্নার মৃত্যুর পূর্বের সময়টা উল্লেখ করে শেলী বলেন, মান্না মাঝরাতে যখন বাসায় ফিরেছে তখন বুকে একটু ব্যাথা করছিল। রাতে খাওয়া দাওয়া করেছে কিন্তু ব্যাথা তো যায়নি। মান্না হলো অতি সতর্ক একজন মানুষ। আমরা হলে হয়তো এতোটা হতাম না। মান্না ইগনোর করে না। একটা অ্যালার্জি হলেও ডাক্তারের কাছে যায়। ওর অসুখ বিসুখ বলতে কিছু ছিল না, শুধু অ্যাসিডিটি ছিল। যেহেতু ব্যাথা কমছে না, মান্না ভাবল ইউনাইটেড হাসপাতালে যাই। মান্না কিন্তু গাড়ি চালিয়ে গেছে। ডাক্তারের ভাষায় অ্যাকুইট হার্ট অ্যাটাক, কার্ডিয়াক অ্যারেস্ট হয়েছে। যদি কারো কার্ডিয়াক অ্যারেস্ট হয় সে কোনোভাবেই গাড়ি চালিয়ে যেতে পারবে না। একটা স্টেপও নিতে পারবে না। ইউনাইটেড হাসপাতাল আমাদেরকে যেসব ফুটেজ দিয়েছে সেখানে দেখা যাচ্ছে মান্না হেঁটে গিয়েছে। তাঁর বিভিন্ন টেস্ট করিয়েছে। তারপর ভর্তি হয়েছে। তাকে কিন্তু কেউ ধরেও নেয়নি, কিছু না। সে একজন স্বাভাবিক মানুষ গিয়েছে। গ্যাসের পেইন, হার্টের পেইন সেইম। ডাক্তাররাও একইভাবে ট্রিটমেন্ট করেন।

হাসপাতালে ভর্তির নির্দিষ্ট সময় উল্লেখ করে শেলী বলেন, মান্না যখন হাসপাতালে ভর্তি হলো তখন ভোর পৌনে পাঁচটা। আমি যদি বাংলাদেশে থাকতাম তাহলে কী করতাম? যে হার্টের স্পেশালিস্ট তাকে দেখাতাম। আমার যখন হাত ভেঙে গিয়েছিল তখন আমি অর্থোপেডিকস ডাক্তারের কাছে গিয়েছিলাম। সাধারণ ডাক্তাররা কিন্তু আমার হাত জোড়া লাগাতে পারবে না। মান্নার চিকিৎসা কিন্তু সাধারণ ডাক্তাররা করেছে। ট্রিটমেন্ট করে যখন কন্ট্রোলের বাইরে চলে গেছে। ৭.৪০ এর দিকে তারা হার্টের একটা ইনজেকশন দেয়। ইনজেকশনের নাম এসকে। অভিজ্ঞ ডাক্তার ছাড়াই এসব করা হয়েছে। আমরা কেস করেছি, এগুলো পয়েন্ট আছে।’

উন্নত দেশের চিকিৎসা ব্যবস্থা সামনে টেনে এনে প্রয়াত চিত্রনায়কের স্ত্রী বলেন, ‘উন্নত দেশে অপারেশন থিয়েটার প্রস্তুত রেখে, কার্ডিওলজিস্টের সাথে রেখে তারপর ওই এসকে ইঞ্জেকশন দেওয়া হয়। মান্নার বেলায় এসব করা হয়নি। ওই ইঞ্জেকশন দেওয়ার পর মান্না গোঙ্গাইছে। গোঙরানিতে মান্না তখন বমি করে দিয়েছে। তাদের ডাক্তার রুটিন অনুযায়ী ৯টায় এসেছে। ডাক্তার ফাতেমার আন্ডারে ট্রিটমেন্ট। ওই হাসপাতালে কি প্রোসিডিউর ছিল না বলেন? ওই সময় ইমের্জেন্সিতে নিয়ে অভিজ্ঞদের সাথে নিয়ে রাইট টাইমে রাইট চিকিৎসাটা করতো, দুই ঘণ্টা ৪০ মিনিটের হিসাব কিন্তু দিতে পারেনি। আমাদের সিক্সথ সেন্স কাজ করেছে, এই হতো পারতো, ওই হতে পারতো।’

মান্না অভিনীত প্রথম সিনেমা ছিল ‘তওবা’। পরিচালক ছিলেন আজহারুল ইসলাম। তার নায়িকা ছিলেন শেলী। যার সঙ্গে পরে তিনি ঘর বেঁধেছিলেন। নিজের চেষ্টা, পরিশ্রমে একসময় মান্না বাংলা সিনেমায় হয়ে উঠেছিলেন এক নম্বর নায়ক। মৃত্যুর আগ পর্যন্ত তিনি শীর্ষস্থান ধরে রেখেছিলেন।

news24bd.tv/আলী

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

রাস্তায় বসে সালমানকে কুর্নিশ জানালেন রাখি (ভিডিও)

অনলাইন ডেস্ক

রাস্তায় বসে সালমানকে কুর্নিশ জানালেন রাখি (ভিডিও)

বলিউড তারকা সালমান খান ও তার ভাই সোহেল খানের সহায়তায় বলিউডের আলোচিত আইটেম গার্ল  রাখি সাওয়ান্তের ক্যানসার আক্রান্ত মায়ের সফল অস্ত্রোপচার হয়েছে। ক্যান্সার সফল হওয়ার পর প্রকাশ্যে রাস্তায় বসে সালমানের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান রাখি। সালমানই ভালো ডাক্তারের ব্যবস্থা করেছিলেন। পাশাপাশি প্রয়োজনীয় অর্থ সহায়তাও দিয়েছিলেন। 

কিছুদিন আগে সালমানের সঞ্চালনায় ‘বিগ বস ১৪’ আসরে প্রতিযোগী হিসেবে গিয়েছিলেন রাখি। সেখানে গিয়ে মায়ের অসুস্থতার খবর শুনে ভেঙে পড়েন তিনি।

সোমবার (১৯ এপ্রিল) প্রকাশ্যে আসা ভিডিওতে রাখি জানান, সালমান খান, তার ভাই সোহেল খান কীভাবে তার পাশে দাঁড়িয়েছেন। সালমানের জন্যই ডা. সঞ্জয় শর্মার মতো ক্যানসার বিশেষজ্ঞ তার মায়ের চিকিৎসা করেছেন। বিশাল একটি ম্যালিগন্যান্ট টিউমার ছিল রাখির মায়ের শরীরে। সেটি সফলভাবে বের করা সম্ভব হয়েছে। ক্যানসারের কোনও চিহ্ন আর তার মায়ের শরীরে নেই বলেই জানিয়েছেন রাখি সাওয়ান্ত।

তিনি জানান, সালমান খান ও তার পরিবারের জন্যই এটা সম্ভব হয়েছে। তার যাবতীয় ভাল কাজের ফল যেন সালমান পান। একথা বলতে বলতেই রাস্তায় বসে পড়েন অভিনেত্রী। মাথা নত করে বলিউডের ভাইজানকে ধন্যবাদ জানান। 

তবে রাখি যেভাবে সালমানকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন তা নিয়েও সমালোচনা হয়েছে। অনেকের মতে, সালমান ও সোহেলকে ফোন করে রাখি ধন্যবাদ দিতে পারতেন। এভাবে রাস্তায় মিডিয়ার সামনে বসে নাটক না করলেও হতো। রাখির সবকিছুতেই নাটক করার অভ্যেস। 

রাস্তায় বসে সালমানকে কুর্নিশ জানালেন রাখি (ভিডিও)

news24bd.tv/আলী

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

স্বপ্নভঙ্গ মিথিলার

অনলাইন ডেস্ক

স্বপ্নভঙ্গ মিথিলার

বেশ কিছুদিন ধরে আলোচনায় চিলো ‘মিস ইউনিভার্স বাংলাদেশ ২০২০’এর মুকুট জয়ী মিস ইউনিভার্স বাংলাদেশ তানজিয়া মিথিলাকে নিয়ে 
তবে যে আয়োজনে অংশ নেওয়ার জন্য এই সুন্দরীর এই মুকুট জয় সেটাই আর হলো না। ভেঙ্গে গেল তার মিস ইউনিভার্স হওয়ার স্বপ্ন।যুক্তরাষ্ট্রে গিয়ে বিশ্ব আসরে নিজেকে তুলে ধরে মিস ইউনিভার্স হওয়ার সেই স্বপ্ন আর পুরণ হলো না বলিউডের ছবিতে অভিনয় করা এই মডেলের। শেষ মুহূর্তে মূল প্রতিযোগিতা থেকে তার নাম প্রত্যাহার করা হয়েছে।

মিস ইউনিভার্স বাংলাদেশ কর্তৃপক্ষ দেশে চলমান লকডাউনে মিথিলার প্রস্তুতির ঘাটতি থাকা, ‘বিউটিফুল বাংলাদেশ’ শীর্ষক ভিডিওচিত্র নির্মাণ করতে না পারা এবং ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞায় যুক্তরাষ্ট্রের ভিসা জটিলতার কারণে বৈশ্বিক এ আসর থেকে মিথিলার নাম প্রত্যাহার করে নিয়েছে।

মিস ইউনিভার্স বাংলাদেশের পরিচালক শফিকুল ইসলাম মঙ্গলবার গণমাধ্যমকে এ তথ্য জানিয়েছেন।

এর আগে প্রায় ১০ হাজার প্রতিযোগীকে পেছনে ফেলে মিস ইউনিভার্স বাংলাদেশ বিজয়ী হন মাগুরার কন্যা মিথিলা। গত ৩ এপ্রিল আনুষ্ঠানিকভাবে তার মাথায় বিজয়ীর মুকুট তুলে দেওয়া হয়।

মিস ইউনিভার্সের মুকুট জয়ের পর মিথিলা বলেছিলেন, আপানাদের ভালোবাসা আর সমর্থনের কারণেই সম্ভব হয়েছে। অবশেষে আমি আমার জীবনের অন্যতম সেরা সফলতা অর্জন করতে পারলাম। এখনো অনেক পথ বাকি। দেশ আর দেশের মানুষের জন্য অনেক কিছু করার আছে।

মুকুট জয়ের পর পরই আলোচনায় আসে মিথিলার একটি ভিডিওচিত্র ও বয়স নিয়ে বিতর্ক উঠে।এ রমধ্যেই গত ৯ এপ্রিল মিস ইউনিভার্সের অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে বাংলাদেশের প্রতিযোগী হিসেবে মিথিলার নাম যুক্ত করে আয়োজকরা। সেই প্রতিযোগিতায় জয়ী হতে মিথিলা ভোটও চেয়েছিলেন।

আগামী ১৬ মে থেকে ৬৯তম মিস ইউনিভার্স প্রতিযোগিতার মূল আসর বসছে যুক্তরাষ্ট্রে।সেখানে প্রতিযোগীদের ৫ মে’র মধ্যে উপস্থিত থাকতে হবে।

তানজিয়া মিথিলা ‘রোহিঙ্গা’ নামে বলিউডের ছবিতে অভিনয় করেন । ২০২০ সালে লকডাউন শুরুর আগে ভারতের বিভিন্ন লোকেশনে তার অংশের শুটিং শেষ হয়েছে। ‘রোহিঙ্গা’ ছবির পরিচালক হায়দার খান মূলত আলোকচিত্রী। বলিউডের ‘দাবাং’, ‘কমান্ডো’, ‘দঙ্গল’ ছবিতে সহকারী পরিচালক হিসেবে কাজ করেছেন হায়দার। 

news24bd.tv/আলী

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

স্বামী চিত্রনায়ক আলমগীরের সুস্থতায় দোয়া চাইলেন গায়িকা রুনা লায়লা

অনলাইন ডেস্ক

স্বামী চিত্রনায়ক আলমগীরের সুস্থতায় দোয়া চাইলেন গায়িকা রুনা লায়লা

করোনা আক্রান্ত স্বামী চিত্রনায়ক আলমগীরের সুস্থতার জন্য দেশবাসীর কাছে দোয়া চেয়েছেন স্ত্রী কিংবদন্তি গায়িকা রুনা লায়লা।  রাজধানীর একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন তিনি।

সূত্রে জানা যায়, গত ১৪ এপ্রিল  রাজধানীর শেরেবাংলা নগরের ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব কিডনি ডিজিজেস অ্যান্ড ইউরোলজি হাসপাতালে করোনাভাইরাস ভ্যাকসিনের দ্বিতীয় ডোজ নেন তারকা দম্পতি আলমগীর ও রুনা লায়লা।

তাদের সঙ্গে একইভাবে টিকা গ্রহণ করেন আলমগীরের তিন সন্তান মেহরুবা আহমেদ, আঁখি আলমগীর ও তাসবির আহমেদ।


মাদ্রাসা শিক্ষার্থীকে বেধড়ক পিটুনির ১মিনিট ৩২ সেকেন্ডের ভিডিও ভাইরাল

ডাক্তার-পুলিশের এমন আচরণ অনাকাঙ্ক্ষিত: হাইকোর্ট

একদিনে করোনা শনাক্ত ৪৫৫৯

২৪ ঘণ্টায় করোনায় মৃত্যু ৯১ জন


কিন্তু আর ভ্যাকসিন নেওয়ার সপ্তাহ না পেরোতেই  করোনায় আক্রান্ত হলেন আলমগীর।

স্ত্রী গায়িকা রুনা লায়লা মঙ্গলবার বিকেলে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকের এক স্ট্যাটাসে রুনা জানান, আলমগীরের করোনা রিপোর্ট পজিটিভ ধরা পড়েছে। বর্তমানে তিনি হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন। তবে তিনি ভালো আছেন। তার দ্রুত করোনামুক্তি জন্য সবাই দোয়া করবেন। আমাদের সবার দোয়ায় তিনি হয়তো দ্রুত সুস্থ হয়ে উঠবেন।

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

জিতের পর শুভশ্রীর করোনা শনাক্ত

অনলাইন ডেস্ক

জিতের পর শুভশ্রীর করোনা শনাক্ত

করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের প্রভাব পড়ছে টলিপাড়ায়। টিকা নিয়েও করোনা আক্রান্ত হয়েছেন জনপ্রিয় অভিনেতা জিৎ। মঙ্গলবার (২০ এপ্রিল) সকালে ইনস্টাগ্রামের একটি পোষ্ট দিয়ে এ খবর জানিয়েছেন তিনি।

করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের প্রভাব পড়ছে টলিপাড়ায়। জিতের পর এবার শুভশ্রী গাঙ্গুলির করোনা শনাক্ত হয়েছে।


মাদ্রাসা শিক্ষার্থীকে বেধড়ক পিটুনির ১মিনিট ৩২ সেকেন্ডের ভিডিও ভাইরাল

ডাক্তার-পুলিশের এমন আচরণ অনাকাঙ্ক্ষিত: হাইকোর্ট

একদিনে করোনা শনাক্ত ৪৫৫৯

২৪ ঘণ্টায় করোনায় মৃত্যু ৯১ জন


মঙ্গলবার (২০ এপ্রিল) শুভশ্রীও ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করে করোনা আক্রান্তের খবর জানিয়েছেন এভাবে, ‘পরীক্ষায় আমার করোনা পজিটিভ এসেছে। আমার ছেলে যুভান নিরাপদে আছে। রাজ বারাকপুরে থাকছে। নিয়ম মেনে আমি হোম কোয়ারেন্টাইনে আছি।’ নিজের পোস্টে সবাইকে মাস্ক পরিধান, স্যানিটাইজ এবং সামাজিক দূরত্ব মেনে চলার আহ্বান জানিয়েছেন নায়িকা।

news24bd.tv তৌহিদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

টিকা নিয়েও করোনা আক্রান্ত জিৎ, চিকিৎসা নিচ্ছেন বাড়িতেই

নিজস্ব প্রতিবেদক

টিকা নিয়েও করোনা আক্রান্ত জিৎ, চিকিৎসা নিচ্ছেন বাড়িতেই

ভারতে প্রতিদিনই বাড়ছে করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা। প্রতিদিনই গড়ছে নতুন রেকর্ড। এবার করোনার সেই হানা টলিউডে। করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ওপার বাংলার জনপ্রিয় অভিনেতা জিৎ। অভিনেতা নিজেই সামাজিক হ্যান্ডেল ইনস্টাগ্রামে মঙ্গলবার সকালে করোনা আক্রান্তের কথা জানিয়েছেন তিনি।

তবে করোনা আক্রান্ত হলেও কোন শারীরিক জটিলতা নেই তার। বর্তমানে নিজের বাড়িতেই রয়েছেন অভিনেতা এবং চিকিৎসকদের সব রকম পরামর্শ মেনে চলছেন জিৎ।

আরও পড়ুন


নরসিংদীর বেলাবতে সড়কের বেহাল দশা, ভোগান্তিতে এলাকাবাসী

হুইপ শামসুলের অরাজকতা, এখনো ধরা পড়েনি ব্যাংকার আত্মহত্যায় জড়িতরা

মান্নার উঠে আসার গল্প নিয়ে ইমরানের কণ্ঠে নতুন গান (ভিডিও)

আলেম-ওলামা নয়, তাণ্ডবের সঙ্গে জড়িতদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে: কাদের


ইনস্টাগ্রামে অভিনেতা লিখেছেন, ‘আমি কোভিড আক্রান্ত। বাড়িতে নিভৃতবাসে রয়েছি এবং চিকিৎসকদের পরামর্শ মেনে চলছি। যারা বিগত কয়েকদিনে আমার সংস্পর্শে এসেছেন, তাদের করোনা পরীক্ষা করাতে এবং সতর্ক থাকতে অনুরোধ করছি। খুব দ্রুত দেখা হবে সকলের সঙ্গে।’

এর আগে গত ১৬ মার্চ কলকাতার একটি বেসরকারি হাসপাতাল থেকে করোনার টিকা নিয়েছিলেন জিৎ। টিকা নেয়ার ছবি ইনস্টাগ্রামেও পোস্ট করেছিলেন অভিনেতা। টিকার ডোজ নেয়ার পরেও করোনায় আক্রান্ত হলেন অভিনেতা। তবে শুধু জিৎ নন, বলিউডেও দেখা গেছে এমন ঘটনা। আশুতোষ রানা, নাগমা, পরেশ রাওয়ালরাও কোভিড টিকা নেওয়ার পর এই ভাইরাস দ্বারা আক্রান্ত হয়েছিলেন।

news24bd.tv আহমেদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর