ইরানকে মোকাবিলার কৌশল নিয়ে ইসরাইল প্রধানমন্ত্রীকে বাইডেনের ফোন

আসমা তুলি

অবশেষে প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের ফোন পেলেন ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রী। এজন্য নেতানিয়াহুকে অপেক্ষা করতে হয়েছে ২৭ দিন। তেলআবিব জানায়, বুধবার সেই ফোনালাপে উঠে আসে ইরানকে মোকাবিলার কৌশল। ছিল ইসরাইলের সঙ্গে আরব দেশগুলোর পারষ্পরিক সম্পর্কের নানা বিষয়ও। এদিকে, উইঘুর ইস্যুতে মানবাধিকার লঙ্ঘনের দায়ে চীনকে ফের কড়া হুঁশিয়ারি দিলেন বাইডেন। 

ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহু, সাবেক  প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের ফোন পেয়েছিলেন ক্ষমতাগ্রহণের মাত্র দুদিন পর। যেখানে জো বাইডেন  ফোন করলেন  ২৭ দিন পর।  বুধবার কথা হয় এই দুই নেতার।  ২০ জানুয়ারি শপথ নেবার পর থেকেই বাইডেন ফোনে বিশ্ব নেতাদের সঙ্গে কথা বলছিলেন। কিন্তু ফোন পাচ্ছিলেন না নেতানিয়াহু।

আরও পড়ুন:


ভাবির সঙ্গে স্বমির পরকীয়া; আপত্তিকর অবস্থায় দেখে ফেলায় গৃহবধূকে হত্যা!

প্রেমিকার মাকে নিয়ে পালিয়েছে মেয়ের প্রেমিক

আলজাজিরায় তথ্যচিত্র প্রচারের দায়ে সামিসহ ৪ জনের বিরুদ্ধে মামলা

বাকপ্রতিবন্ধী শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগ ভাইয়ের বিরুদ্ধে

এবার নিবন্ধনের আওতায় আসছে অটোরিকশা-ইজিবাইক


ধারণা করা হচ্ছিলো, বাইডেন ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রীকে এড়িয়ে যাচ্ছেন। কারণ  ক্ষমতায় আসা নতুন নেতাদের সৌজন্যতার রীতিতে এই ধরনের ফোনকলকে সাধারণত এভাবেই বিশ্লেষণ করেন কূটনৈতিক বিশ্লেষকরা।

ফোনালাপের পর  বাইডেন জানান, চমৎকার আলাপ হয়েছে। নেতানিয়াহু জানায়, দু’নেতার প্রায় এক ঘণ্টা কথা হয়েছে। ইসরাইলের দাবি, দুই নেতা ইরানের চলমান হুমকি মোকাবিলায় পরামর্শ বিনিময় করেন। পাশাপাশি, ইসরাইলের সঙ্গে আরব ও মুসলিম দেশের সম্পর্কের নানা বিষয়ও উঠে আসে সেখানে। 
 
চীনের বিরুদ্ধে ফের কঠোর বার্তা দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট বাইডেন। দেশটিকে সতর্ক করে তিনি বলেন, মানবাধিকার লঙ্ঘনের জন্য বেইজিংকে চড়া মূল্য দিতে হবে। মঙ্গলবার সিএনএনে সম্প্রচারিত এক অনুষ্ঠানে  উইঘুর মুসলিমদের ওপর নিপীড়ন ইস্যুতে এ হুঁশিয়ারি দেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। বলেন,  মানবাধিকারের পক্ষে দাঁড়াতে যুক্তরাষ্ট্র তার বৈশ্বিক ভূমিকায় ফিরবে। এ সময় আন্তর্জাতিক সম্প্র্রদায়কে উইঘুরদের সুরক্ষায় এগিয়ে আসার আহ্বান জানান তিনি।

news24bd.tv / কামরুল 

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

মিয়ানমারে কঠোর অবস্থানে জান্তা সরকার

অনলাইন ডেস্ক

মিয়ানমারে সেনা-বিরোধী বিক্ষোভ আজও অব্যাহত রয়েছে। কঠোর অবস্থানে বজায় রেখেছে জান্তা সরকারও।

শনিবার দিবাগত রাতে ইয়াঙ্গুনে বিক্ষোভকারী নেতাদের আটক করা হয়েছে। তবুও রোববার পুলিশের চোখ রাঙানো উপেক্ষা করে রাস্তায় বিক্ষোভে নেমেছে লাখো মানুষ। বেশ কয়েকটি স্থানে বিক্ষোভকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে কাঁদুনে গ্যাস ও স্টান গ্রেনেড ছুড়েছে পুলিশ। 


শত বিঘায় শস্যচিত্রে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি

৩৩৭ জনকে উপসচিব পদে পদোন্নতি

আটকে গেল ব্রাজিল-আর্জেন্টিনার লড়াই

শিক্ষার্থীকে পিটিয়ে জখম মাদ্রাসার শিক্ষক প্রেপ্তার


তবে এখনো পর্যন্ত কোন হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি। এদিকে, থাইল্যান্ড ও তাইওয়ানে বসবাসরত মিয়ানমারের মানুষও জান্তা সরকারের বিরুদ্ধে ফুঁসে উঠছে। 

তাইওয়ানে বসবাসরত প্রবাসীরা সংকট নিরসনে যুক্তরাষ্ট্রের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন। দাবি করেছেন, জান্তা সরকারের বিরুদ্ধে মার্কিন নিষেধাজ্ঞার।

news24bd.tv নাজিম

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

এত রাগ কেন দিদি?: কলকাতায় এসে মমতাকে মোদি

অনলাইন ডেস্ক

এত রাগ কেন দিদি?: কলকাতায় এসে মমতাকে মোদি

(ছবি-বাঁ দিক থেকে) মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, নরেন্দ্র মোদি

পশ্চিমবঙ্গে বিধানসভা নির্বাচন সামনে রেখে কলকাতার বিগ্রেড মাঠে আজ সমাবেশ করেছে ভারতীয় জনতা পার্টি (বিজেপি)। সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী ও তৃণমূল কংগ্রেস নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে উদ্দেশ্য করে বলেন, দিদি হিসেবে ১০ বছর আগে আপনাকে ক্ষমতায় বসিয়েছিলেন পশ্চিমবঙ্গের মানুষ। কিন্তু সেই বিশ্বাস ভঙ্গ হয়েছে। মমতা শুধু একজন ভাইপোর পিসি হয়ে রয়ে গেছেন।

ভাষণের শুরুতেই উচ্ছ্বাস প্রকাশ করে মোদি বলেন, দীর্ঘ রাজনৈতিক জীবনে এত বড় সভা আমি দেখিনি। হেলিকপ্টার থেকে দেখছিলাম। ময়দানে জায়গা নেই। রাস্তায় লোক উপচে পড়ছে। মনে হয় না তারা পৌঁছতে পারবেন। সবাইকে প্রণাম জানাই।

তিনি বলেন,  মনে হচ্ছে যেন ২ মে এসে গেছে। একইসঙ্গে তৃণমূলের ‘খেলা হবে’ স্লোগান তুলে ধরে প্রধানমন্ত্রী সাফ হুঁশিয়ারি দেন, ‘বাংলায় এবার তৃণমূলের খেলা খতম’।

মমতা সরকারের কড়া সমালোচনা করে মোদি বলেন, রাজ্যবাসী সোনার বাংলা চায়। প্রগতিশীল বাংলা, উন্নয়নের বাংলা চায়। আপনারা দিদির হাতে বাংলার দায়িত্ব দিয়েছিলেন। কিন্তু সেই বিশ্বাস ভঙ্গ হয়েছে। এখন বাঙালি কোমর বেঁধেছে। এবার আসল পরিবর্তন হবেই।


শত বিঘায় শস্যচিত্রে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি

৩৩৭ জনকে উপসচিব পদে পদোন্নতি

আটকে গেল ব্রাজিল-আর্জেন্টিনার লড়াই

শিক্ষার্থীকে পিটিয়ে জখম মাদ্রাসার শিক্ষক প্রেপ্তার


তিনি আরও বলেন, কখনও আমাকে রাবণ, কখনও দৈত্য, কখনও গুন্ডা বলছেন দিদি। এত রাগ কেন দিদি? আপনার দল এবং আপনার সরকারের ছড়ানো পাঁকেই আজ বাংলায় পদ্ম ফুটছে। গণতন্ত্রের নামে বাংলায় লুঠতন্ত্রকে প্রশ্রয় দিয়েছেন, জাত-ধর্মের নামে বিভেদের রাজনীতি করেছেন, তাই আজ বাংলায় পদ্ম ফুটছে। দিদিকে অনেক দিন ধরে চিনি। বামপন্থীদের বিরুদ্ধে লড়া দিদি এমন ছিলেন না। কিন্তু আজ দিদির রিমোট কন্ট্রোল অন্যের হাতে।

মোদি বলেন, আজ বাংলার ছেলে মিঠুন চক্রবর্তী রয়েছেন আমাদের সঙ্গে। তার সংঘর্ষ এবং উত্থান সম্পর্কে সবাই অবগত। আজ পরিবর্তনের জন্যই এসেছে মানুষ।

তিনি বলেন, বাংলার মানুষ দিদির ওপর ভরসা করেছিলেন। কিন্তু দিদি এবং তার সাঙ্গপাঙ্গরা সেই বিশ্বাস ভেঙে দিয়েছেন। বাংলার মানুষের বিশ্বাসভঙ্গ করেছেন দিদি। মা-বোনেদের ওপর অকথ্য অত্যাচার হয়েছে। বাংলার মানুষ তবু ভেঙে পড়েনি। বরং পরিবর্তন চাইছে। বাংলার উন্নতি চাইছে। সূত্র: আনন্দবাজার ও ইন্ডিয়া এক্সপ্রেস

news24bd.tv নাজিম

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

কলকাতায় মোদির জনসভা আজ

অনলাইন ডেস্ক

পশ্চিমবঙ্গ নির্বচনের তফসিল ঘোষণার পর আজ কলকাতায় প্রথম নরেন্দ্র মোদির জনসভা। এরই মধ্যে সমাবেশ কেন্দ্র করে গোটা কলাকাতায় সাজ সাজ রব তৈরি হয়েছে। 

দলে দলে বিজেপি সমর্থকরা যোগ দিচ্ছেন সমাবেশ স্থলে। নির্বাচনের আগে মোদির এই সমাবেশে বড় ধরনের শোডাউনের প্রস্তুতি রয়েছে কেন্দ্রীয় সরকারে থাকা দল বিজেপির। 


শত বিঘায় শস্যচিত্রে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি

৩৩৭ জনকে উপসচিব পদে পদোন্নতি

আটকে গেল ব্রাজিল-আর্জেন্টিনার লড়াই

শিক্ষার্থীকে পিটিয়ে জখম মাদ্রাসার শিক্ষক প্রেপ্তার


ধারণা করা হচ্ছে আজকের সমাবেশে মোদির পাশে মঞ্চে দেখা যেতে পারে চলচ্চিত্র জগতের তিন স্টার অক্ষয় কুমার, মিঠুন চক্রবর্তী ও প্রসনজিৎ মুখোপাধ্যয়।

news24bd.tv নাজিম

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

ভারতে ডাকাতির অভিযোগে কথিত তিন বাংলাদেশি গ্রেপ্তার

অনলাইন ডেস্ক

ভারতে ডাকাতির অভিযোগে কথিত তিন বাংলাদেশি গ্রেপ্তার

ভারতের দিল্লিতে ডাকাতির অভিযোগে কথিত তিন বাংলাদেশিকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। শনিবার পুলিশের পক্ষ থেকে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন, মোহাম্মদ খায়রুল ওরফে আরমান (৪৬), মোহাম্মদ সাদিক শেখ (২৯) ও মন্টু মোল্লা (৩০)। এ খবর দিয়েছে ভারতের সরকারি বার্তা সংস্থা পিটিআই।

এতে আরও বলা হয়, গাজিয়াবাদের কাভি নগরে একটি ডাকাতি ও দিল্লি-এনসিআরে বাড়িতে ঢুকে জোরপূর্বক অপরাধের ১৮টি অভিযোগ আছে তাদের বিরুদ্ধে। এসব অপরাধ করে তারা বাংলাদেশে ফেরত আসে। 

পরে আবার তারা ভারতে ফিরে যায় বলে বলা হয়েছে রিপোর্টে। পুলিশের তথ্যমতে, গত ২৮ শে ফেব্রুয়ারি কাভি নগরে একটি বাড়ির জানালার গ্রিল কেটে ভিতরে প্রবেশ করে চার ব্যক্তি।


দেব-মিমি-নুসরাত যে কারণে প্রার্থীদের তালিকায় নেই

চুম্বনের দৃশ্যের আগে ফালতু কথা বলতো ইমরান : বিদ্যা

রণবীরের সঙ্গে ক্যাটরিনার খোলামেলা ছবি বিশ্বাস হয়নি সালমানের

এখন আর বিবাহবিচ্ছেদ চান না নওয়াজের স্ত্রী, নরম করলেন গলার সুর!


তারা অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে ওই বাড়ির সব মূল্যবান সম্পদ লুটপাট করে। পুলিশ তদন্তে নামে। তারা এক পর্যায়ে দেখতে পায় একটি গ্যাংয়ের নেতৃত্ব দিচ্ছে খায়রুল। ভারতে অনেক অপরাধের সঙ্গে সে ও তার গ্রুপ যুক্ত। এ অবস্থায় খায়রুলের গতিবিধি সম্পর্কে তথ্য পায় পুলিশ। বলা হয়, তার গ্যাং অবস্থান করছে লাদো সারাই এলাকায়। এ খবর পাওয়ার পর ফাঁদ পাতে পুলিশ।

news24bd.tv / কামরুল 

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

দেব-মিমি-নুসরাত যে কারণে প্রার্থীদের তালিকায় নেই

অনলাইন ডেস্ক

দেব-মিমি-নুসরাত যে কারণে প্রার্থীদের তালিকায় নেই

বিধানসভা নির্বাচনকে কেন্দ্র করে উত্তাল ভারতের পশ্চিমবঙ্গ। অভিযোগ পাল্টা অভিযোগ তো লেগেই আছে। এদিকে নির্বাচনের আলোচনায় বাড়তি ঘি ঢেলেতে তৃণমূলে একঝাঁক তারকার যোগ দেয়া। তারকাদের রাজনীতিতে যোগ দেয়ার খবরে আলোচনা থামছেই না। তবে শুধু যে তৃণমূলেই তা নয় বিজেপিতেও আছে তারকাদের মেলা।

গত শুক্রবার দুপুরে কলকাতার কালীঘাটের বাড়ি থেকে বিধানসভা নির্বাচনের প্রার্থী তালিকা ঘোষণা করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে ২৯১ জনের তালিকায় দেব, মিমি চক্রবর্তী ও নুসরাত জাহানের নাম না থাকায় আলোচনা আরো দীর্ঘায়িত হচ্ছে। কেউ বলছেন প্রার্থীতা থেকে বাদ দেয়া হয়েছে তাদের।

তবে যারা ভাবছে তাদের বাদ দেয়া হয়েছে তারা ভুল ধারণা নিয়ে বসে আছেন। কেননা ২০১৯ সালে লোকসভা নির্বাচনে যাদবপুর আসন থেকে মিমি চক্রবর্তী, বসিরহাট আসন থেকে নুসরাত জাহান এবং ঘাটাল থেকে দেব সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন। যারা দেশটির কেন্দ্রীয় সাংসদ তাদের বিধানসভায় আসনের কোন প্রয়োজন আছে কি?

আরও পড়ুন:


ওমান সাগরে তৈরি হবে ইরানের সর্ববৃহৎ সমুদ্রবন্দর

নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে সাক্ষাৎ হবে তাই ঘুম হয়নি শ্রাবন্তীর

ট্রাকচাপায় চবি আইন বিভাগের প্রথম ব্যাচের ছাত্রের মৃত্যু

শতকোটি টাকার মানহানির মামলা থেকে অব্যাহতি পেলেন শমী কায়সার


নতুন করে তৃণমূলে অনেক তারকা যোগ দিয়েছেন। কিন্তু সবাইকে প্রার্থী করেননি মমতা। এবার যারা প্রার্থী তালিকায় জায়গা পাননি তাদের জন্য ভবিষ্যতে বিধান পরিষদে জায়গা দেওয়ার আশ্বাস দিয়েছেন শাসক দলের এই নেত্রী।

টালিউড তারকাদের মধ্যে এবার মমতার টিকিট পেয়েছেন পরিচালক রাজ চক্রবর্তী, অভিনেতা কাঞ্চন মল্লিক, সোহম চক্রবর্তী, অভিনেত্রী সায়ন্তিকা বন্দ্যোপাধ্যায়, সায়নী ঘোষ, কৌশানি মুখোপাধ্যায়, লাভলি মৈত্র, জুন মালিয়া, কীর্তন শিল্পী অদিতি মুন্সি প্রমুখ।

news24bd.tv আহমেদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর