বাংলাদেশি হাফেজ বশির ফের মালয়েশিয়ার মাসা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিপি নির্বাচিত

অনলাইন ডেস্ক

বাংলাদেশি হাফেজ বশির ফের মালয়েশিয়ার মাসা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিপি নির্বাচিত

বাংলাদেশি শিক্ষার্থী হাফেজ বশির ইবনে জাফর দ্বিতীয়বারের মতো মালয়েশিয়ার মাসা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিপি নির্বাচিত হয়েছেন। বিশ্ববিদ্যালয়টির প্রকৌশল বিভাগে অধ্যয়নরত বশির ইবনে জাফরের বাড়ি কিশোরগঞ্জের শোলাকিয়ায়। 

তার বাবা মাওলানা জাফর আহমদ কাসেমী জামালপুর জেলার জামেউল উলুম হাক্কানিয়া দাওরায়ে হাদিস মাদ্রাসার মুতামিম এবং মা গৃহিণী। তাদের বর্তমান নিবাস ময়মনসিংহ শহরে।

মালয়েশিয়ার অন্যতম বৃহৎ বিশ্ববিদ্যালয় মাসা ইউনিভার্সিটির ছাত্র সংসদ তথা ‘স্টুডেন্ট রিপ্রেজেন্টিটিভ কাউন্সিল’ (এসআরসি) নির্বাচনে ভাইস প্রেসিডেন্ট (ভিপি) পদে আবারও জয়লাভ করলেন বাংলাদেশি এ তরুণ।  

২০২১ শিক্ষাবর্ষের ছাত্রসংসদ নির্বাচনে সাত প্রতিদ্বন্দ্বীকে হারিয়ে ৮১৩ ভোটে জয়ী হয়েছেন বশির ইবনে জাফর। মোট ভোটার সংখ্যা ১৭৯২। নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী পেয়েছেন ৪০৭ ভোট। 

এছাড়াও বশির ইবনে জাফরের প্যানেলের ৬ জনের মধ্যে ৫ জনই বিজয়ী হয়েছেন বলে জানিয়েছেন তিনি।

বিশ্ববিদ্যালয়টির শিক্ষার্থীদের নিয়ে গত ১ ডিসেম্বর থেকে শুরু হওয়া নির্বাচনের প্রথম ও দ্বিতীয় দফা ভোট শেষে সোমবার স্থানীয় সময় বেলা আড়াইটায় ইলেকটোরাল কমিটি কর্তৃক এ ফলাফল প্রকাশিত হয়।

আরও পড়ুন:


সাতসকালেই সিরাজগঞ্জে সড়ক দুর্ঘটানায় ৫ জন নিহত

কাজ করলে একসঙ্গে করতে হবে এটিই গণতন্ত্রের সৌন্দর্য

আচরণগত অর্থনীতি: উভয়সঙ্কটের নৈতিক সমস্যা

ঢাকার সাত কলেজের পরীক্ষার বিষয়ে সিদ্ধান্ত আজ


এর আগে গত ২৩ ডিসেম্বর ফলাফল প্রকাশ করার কথা থাকলেও সিনেটের অনুমদন না পাওয়ায় ইলেকটোরাল কমিটি তা প্রকাশের জন্য নতুন দিন ধার্য করে।

গত বছর এ নির্বাচনে আটজন প্রতিদ্বন্দ্বীকে হারিয়ে প্রথমবারের মতো বাংলাদেশি বশির এই বিশ্ববিদ্যালয়টির ভিপি হওয়ার গৌরব অর্জন করেন। এবারও তিনি নির্বাচিত হয়েছেন।  

স্থানীয় শিক্ষার্থীদের জন্য প্রেসিডেন্ট পদটি সংরক্ষিত রাখা হয়। বাকি আরও ৮টি পদ নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন আয়োজন করে এই এসআরসি নির্বাচন।

হাফেজ বশির ইবনে জাফরের এ বিজয়ে মালয়েশিয়া প্রবাসীরা তাকে অভিন্ন্দন জানিয়েছেন। 

news24bd.tv আহমেদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

দুবাই প্রবাসীদের জন্য ওয়ান-স্টপ ব্যাংকিং সেবায় স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড

অনলাইন ডেস্ক

দুবাই প্রবাসীদের জন্য ওয়ান-স্টপ ব্যাংকিং সেবায় স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড

ফাইল ছবি

দুবাইয়ে বসবাসরত বাঙালি প্রবাসী (এনআরবি)-দের জন্য স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড ব্যাংক প্রদর্শন করলো ওয়ান-স্টপ ব্যাংকিং সমাধান, ‘স্বদেশী ব্যাংকিং’।

স্বদেশী ব্যাংকিং-এর মাধ্যমে যেসকল বাঙালি প্রবাসীরা দুবাইয়ে বসবাস করছেন তারা স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড ব্যাংকের বিশেষভাবে নিবেদিত এনআরবি হেল্পডেস্ক থেকে এনআরবি ব্যাংকিং সুবিধা গ্রহন করতে পারবেন।

দুবাইয়ে সম্প্রতি “দ্যা রাইজ অব বেঙ্গল টাইগার: পটেনশিয়ালস অব বাংলাদেশ ক্যাপিটাল মার্কেটস” শীর্ষক একটি রোডশো-এর মধ্য দিয়ে উক্ত সুবিধাগুলোর প্রদর্শনী করা হয়। বাংলাদেশ সিকিউরিটিস অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)-এর পক্ষ থেকে রোডশো-টি আয়োজন করা হয়।

হেল্পডেস্কের মাধ্যমে প্রবাসী গ্রাহকরা সহজে মানি ট্রান্সফার, এনআরবি বন্ডস-এ বিনিয়োগ ও আকর্ষনীয় হোম ফাইন্যান্স সল্যুশনের মতো সুবিধা পাবেন।


গুপ্তচরবৃত্তির ইসরাইলি জাহাজে ইরানের হামলা!

ওটিটি প্ল্যাটফর্মেও ডাবল ব্লকবাস্টার দৃশ্যম টু!

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ নিয়ে মুখোমুখি অবস্থানে পাক-ভারত!

অপো নতুন ফোনে থাকছে ১২ জিবি র‌্যাম


গ্রাহকগণ ফরেইন কারেন্সি অ্যামাউন্ট থেকে শুরু করে নন-রেসিডেন্ট টাকা অ্যামাউন্ট, নন-রেসিডেন্ট এক্সক্লুসিভলি রেমিটেন্স-ফেড টাকা অ্যামাউন্ট, বাংলাদেশে বসবাসরতদের সাথে জয়েন্ট অ্যাকাউন্ট খোলার সুবিধা পর্যন্ত তাদের প্রয়োজন অনুযায়ী অ্যাকাউন্ট বাছাই করার সুযোগও পাবেন।

স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড বাংলাদেশের সিইও নাসের এজাজ বিজয়; হেড অব ফাইন্যান্সিয়াল ইন্সটিটিউশন আলমগীর মোর্শেদ; প্রায়োরিটি ব্যাংকিং, ডিপোজিট ও মর্টেজ এর জেনারেল ম্যানেজার লুতফুল হাবিব সহ ব্যাংকের অন্যান্য উর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ রোডশো-তে অংশগ্রহন করেন।  

স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড বাংলাদেশের প্রাচীনতম আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে একটি এবং ব্যাংকিং সেবার পূর্ণাঙ্গ সুবিধা প্রদানকারী একমাত্র আন্তর্জাতিক ব্যাংক। পণ্য ও সমাধান প্রদানে ক্রমাগত উদ্ভাবনের মাধ্যমে স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড বাংলাদেশ রিটেইল গ্রাহকদের অর্থায়নে অগ্রণী ভূমিকা পালন করছে। স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড-ই বাংলাদেশের প্রথম ব্যাংক যারা ক্রেডিট কার্ড, এটিএম, ইন্টারনেট ব্যাংকিং সল্যুশন, সম্পূর্ণ স্বয়ংক্রিয় ২৪ ঘণ্টা কল সেন্টার সহ অন্যান্য অসংখ্য যুগান্তকারী উদ্ভাবন চালু করেছে।

  news24bd.tv/আলী

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

কুয়েতে অশ্লীল নৃত্য : ৪ বাংলাদেশিকে খুজঁছে দূতাবাস

অনলাইন ডেস্ক

কুয়েতে অশ্লীল নৃত্য : ৪ বাংলাদেশিকে খুজঁছে দূতাবাস

কুয়েতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অশ্লীল নৃত্যর সাথে কুয়েতি দিনার ছিটানোর দায়ে জড়িত ৪ বাংলাদেশিকে প্রয়োজনিয় কাগজপত্র ও ঠিকানাসহ যোগাযোগ করতে বলছে কুয়েতে অবস্থিত বাংলাদেশ দূতাবাস।

মঙ্গলবার (২ মার্চ) কুয়েতে অবস্থিত বাংলাদেশি দূতাবাসের একটি জরুরী বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে (ফেসবুক/টিকটকে) ছড়িয়ে পড়া একটি ভিডিওতে ৪ জন বাংলাদেশীকে কুয়েতি দিনার ছিটিয়ে অশ্লীল নৃত্য করতে দেখা যায়। এ ধরনের কর্মকাণ্ড কুয়েতে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি চরমভাবে ক্ষুন্ন করেছে।


গুপ্তচরবৃত্তির ইসরাইলি জাহাজে ইরানের হামলা!

ওটিটি প্ল্যাটফর্মেও ডাবল ব্লকবাস্টার দৃশ্যম টু!

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ নিয়ে মুখোমুখি অবস্থানে পাক-ভারত!

অপো নতুন ফোনে থাকছে ১২ জিবি র‌্যাম


 

বিজ্ঞপ্তিতে আরো বলা হয়, উক্ত ভিডিওর সাথে জড়িতদের ঠিকানা/পরিচয়/মোবাইল নাম্বার জানা থাকলে অতিসত্বর কুয়েতে অবস্থিত বাংলাদেশ দূতাবাসে জানানোর জন্য অনুরোধ করা যাচ্ছে।

সেই সাথে প্রবাসে দেশের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন হয় এরকম যেকোন কাজকর্ম থেকে বিরত থাকা এবং স্থানীয় আইন-কানুন মেনে চলার জন্য কুয়েত প্রবাসী বাংলাদেশিদের কঠোর নির্দেশনা প্রধান করা হচ্ছে বলেও বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়। 

news24bd.tv/আলী

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

যুক্তরাষ্ট্রে আল জাজিরার বিরুদ্ধে মামলা

অনলাইন ডেস্ক

যুক্তরাষ্ট্রে আল জাজিরার বিরুদ্ধে মামলা

আল জাজিরার বিরুদ্ধে মামলা করেছে যুক্তরাষ্ট্র বঙ্গবন্ধু পরিষদ এবং বঙ্গবন্ধু কমিশনের পক্ষে ডক্টর রাব্বী আলম, শেরে আলম এবং রিজভী আলম। তারা সবাই যুক্তরাষ্ট্রে বসবাস করে। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রেই এই মামলা করা হয়েছে। 

মামলায় বলা হয়েছে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ণ করে প্রতিবেদন প্রচার করেছে আল জাজিরা। 


সাই পল্লবীর ফাঁস হওয়া ভিডিও ভাইরাল (ভিডিও)

আনুশকাকে ধর্ষণের পর হত্যা দিহানের বিরুদ্ধে প্রতিবেদন পেছাল

ডিভোর্সের গুঞ্জনের মধ্যেই নতুন প্রেমে জড়ালেন শ্রাবন্তী!

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন স্থগিতের আহ্বান জাতিসংঘের


মামলাটি ফেডারেল আদালতের সিক্স সার্কিট কোর্টের আন্ডারে মিশিগান অঙ্গরাজ্যের কোর্টে করা হয়েছে। মামলার আর্জিতে বলা হয়, 'অল দ্য প্রাইম মিনিস্টারস মেন' শিরোনামে আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম আল জাজিরায় প্রচারিত তথ্যচিত্রে অসত্য এবং বানোয়াট তথ্য দিয়ে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন করা হয়েছে।

মামলার বিবাদীরা হলেন- আল-জাজিরা ইংলিশ, আল-জাজিরা মিডিয়া নেটওয়ার্কস, ডেভিড বার্গম্যান, দেলোয়ার হোসেন, জুলকারনাইন সায়ের, কনক সারোয়ার ও ইলিয়াস হোসেন।

news24bd.tv আয়শা

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

ভাঙা লেবানন বিএনপি আবারও জোড়া লাগলো

অনলাইন ডেস্ক

ভাঙা লেবানন বিএনপি আবারও জোড়া লাগলো

দীর্ঘ প্রায় দুই বছরেরও বেশি সময় ধরে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে ভেঙে যাওয়া লেবানন বিএনপি আবারও ঐক্যবদ্ধ হয়েছে। লেবানন বিএনপির তৎকালিন সভাপতি নজরুল ইসলাম মজুমদার ও প্রধান উপদেষ্টা মফিজুল ইসলাম বাবুর মাঝে ভুল বোঝাবুঝির জেরে ভাঙন ধরে দলটিতে। গঠিত হয় দুইটি কেন্দ্রীয় কমিটি। আর সব সমস্যার সমাধান ঘটিয়ে অবশেষ আবার ঐক্যব্ধ হলো দলটি।

গত রোববার নজরুল ইসলাম মজুমদার ও মফিজুল ইসলাম বাবু সমন্বয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে ঐক্যের ঘোষণা করা হয়। উক্ত সংবাদ সম্মেলনে লেবানন বিএনপির নেতাকর্মীদের নিয়ে সকল ভুল বোঝাবুঝির অবসান ঘটিয়ে লেবানন বিএনপি দুইটি কমিটি বিলুপ্ত করে সাবেক সিনিয়র সহ-সভাপতি জাকির হোসেন জাকিরকে প্রধান আহবায়ক ও সাবেক সহ-সভাপতি আব্দুক কাদের ভূইয়াকে যুগ্ম-আহবায়ক করে একটি আংশিক আহবায়ক কমিটি ঘোষণা করেন এই দুই নেতা ।

সংবাদ সম্মেলনের আগে নেতৃবৃন্দ দীর্ঘ সময় ধরে বৈঠক করেন। বৈঠক শেষ লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন নজরুল ইসলাম মজুমদার।

তিনি বলেন, লেবানন বিএনপিতে যে বিভক্ত ছিল তার অবসান ঘটেছে। দলে আর কোন বিরোধ নেই। পাশাপাশি দুইটি কমিটিকে বিলুপ্ত করে নতুন করে একটি আহবায়ক কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে।

আরও পড়ুন:


উচ্চ বেতনে পাওয়ার গ্রিড কোম্পানিতে চাকরির সুযোগ

প্রেমের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় কলেজ ছাত্রীকে হত্যা

এখনো ইরান ও আমেরিকাকে নিয়ে বসতে চান বোরেল

সৌদি যুবরাজের শাস্তি চাইলেন খাশোগির বাগদত্তা চেঙ্গিস


মফিজুল ইসলাম বাবু বলেন, আমাদের মাঝে আর কোন ভেদাভেদ নেই। আমরা নিজেদের ভুল বুঝতে পেরেছি। শহীদ জিয়ার আদর্শকে বাস্তবায়ন করতে বিভক্ত থাকার সুযোগ নেই বলেও তিনি যোগ করেন।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, লেবানন বিএনপি’র প্রতিষ্ঠাতা সদস্য আমীর হোসেন কলিম, ভাষানী মোল্লা, উপদেষ্টা মণ্ডলীর সদস্য আব্দুর রহমান আহাদ। সাবেক সাধারণ সম্পাদক মুজিবুল হক মুজিব, আবু বক্কর সিদ্দীক, আমিনুল ইসলাম আইমন, ওয়াসিম আকরাম, আরমান হোসেন আমান, আব্দুল কাইয়ুম, আব্দুল হকসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।

news24bd.tv আহমেদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

জীবন যুদ্ধে হেরে গেলেন অগ্নিদগ্ধ সিঙ্গাপুরপ্রবাসী

অনলাইন ডেস্ক

জীবন যুদ্ধে হেরে গেলেন অগ্নিদগ্ধ সিঙ্গাপুরপ্রবাসী

সিঙ্গাপুরে একটি কারখানায় অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় আনিসুজ্জামান (৩২) নামে এক প্রবাসী বাংলাদেশির মৃত্যু হয়েছে। বুধবার নিজ কর্মস্থলে অগ্নিদগ্ধ হন এ প্রবাসী। পরে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ে একদিন পরই মারা যান তিনি। গত বুধবার দুপুরে কারখানায় কাজ করার সময় অগ্নিদগ্ধ হন তিনি।

এরপর হাসপাতালে নেয়া হলে বৃহস্পতিবার রাতে মৃত্যু হয় তার। চাঁদপুর জেলার হাজীগঞ্জ উপজেলার বড়কূল পশ্চিম ইউনিয়নের গোবিন্দপুর গ্রামের অহিদ হাওলাদারের ছেলে আনিসুজ্জামান বলে জানা গেছে।


গুপ্তচরবৃত্তির ইসরাইলি জাহাজে ইরানের হামলা!

ওটিটি প্ল্যাটফর্মেও ডাবল ব্লকবাস্টার দৃশ্যম টু!

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ নিয়ে মুখোমুখি অবস্থানে পাক-ভারত!

অপো নতুন ফোনে থাকছে ১২ জিবি র‌্যাম


 

ছেলের মরদেহ দেশে ফিরিয়ে আনার বিষয়ে তার বাবা অহিদ হাওলাদার বলেন, ‘আমার ছেলের মরদেহ কবে ফিরবে তা জানি না। তবে মেয়ের জামাতা সেখান থেকে আনিসের মরদেহ দেশে নিয়ে আসার জন্য চেষ্টা করছে।

news24bd.tv/আলী

মন্তব্য

পরবর্তী খবর