যে শর্ত মানলে ইরানের পরমাণু স্থাপনা পরিদর্শনের সুযোগ পাবে আইএইএ

অনলাইন ডেস্ক

যে শর্ত মানলে ইরানের পরমাণু স্থাপনা পরিদর্শনের সুযোগ পাবে আইএইএ

ইউরোপ ও আমেরিকা যদি পরমাণু সমঝোতায় দেওয়া প্রতিশ্রুতিগুলো আগামী তিন মাসের মধ্যে বাস্তবায়ন করে তাহলে তেহরান সম্পূরক প্রটোকলের বাস্তবায়ন আবার শুরু করবে। এ তথ্য জানিয়েছেন ইসলামী প্রজাতন্ত্র ইরানের সংসদের জাতীয় নিরাপত্তা ও পররাষ্ট্র নীতি বিষয়ক কমিশনের উপ-প্রধান শাহরিয়ার হেইদারি।

তিনি আন্তর্জাতিক আণবিক শক্তি সংস্থা বা আইএইএ'র সঙ্গে ইরানের সমঝোতা প্রসঙ্গে বলেন, ইউরোপীয় দেশগুলো এবং আমেরিকাকে একটা ভালো সুযোগ দেওয়া হয়েছে। তারা যদি কথা রাখে তাহলে আইএইএ'র সঙ্গে ইরানের সহযোগিতা সম্পূরক প্রটোকলের ভিত্তিতে আবারও শুরু হতে পারে।

ইরানের এই কর্মকর্তা বলেন, আসলে পরমাণু সমঝোতা যদি কেবল আলোচনার একটা অজুহাত হিসেবে ব্যবহৃত হয় তাহলে তা ইরানের কোনো স্বার্থই রক্ষা করবে না। এ কারণে সংসদ দেশের স্বার্থে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার সংক্রান্ত কৌশলগত আইন পাস করেছে। এই আইন দেশের স্বার্থ রক্ষা করবে বলে তিনি জানান।

আরও পড়ুন:


যে সূরা নিয়মিত পাঠ করলে কখনই দরিদ্রতা স্পর্শ করবে না

বঙ্গবন্ধুর খুনিকে ফেরত চেয়ে যুক্তরাষ্ট্রকে আবারও অনুরোধ

নিউজিল্যান্ডে পৌঁছেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল

কাদের মির্জার অশালীন ফোনালাপ ফাঁস (অডিওসহ)


আন্তর্জাতিক আণবিক শক্তি সংস্থা বা আইএইএ'র পরিদর্শক দলের জন্য সম্পূরক প্রটোকলের আওতায় পরমাণু স্থাপনা পরিদর্শনের সুযোগ গতকাল থেকে বন্ধ করে দিয়েছে ইরান।

২৩ ফেব্রুয়ারি থেকে ইরান সম্পূরক প্রটোকল স্থগিত করবে বলে আগেই ঘোষণা দিয়েছিল। এ প্রটোকলের আওতায় আইএইএ'র পরিদর্শকরা যেকোনো মুহূর্তে ইরানের পরমাণু স্থাপনা পরিদর্শন করতে পারতেন। কিন্তু এখন আর সেই সুযোগ নেই। সূত্র: পার্সটুডে।

news24bd.tv আহমেদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

আফগানিস্তান থেকে সব সেনা ফিরিয়ে নিবে যুক্তরাষ্ট্র!

অনলাইন ডেস্ক

২০ বছর ধরে আফগানিস্তানে আল কায়েদা ও তালেবানদের বিরুদ্ধে চলা যুদ্ধ থেকে সেনা প্রত্যাহারের ঘোষণা দিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। 

বুধবার হোয়াইট হাউজ থেকে দেয়া ঘোষণায় তিনি জানিয়েছেন, আগামী ১১ সেপ্টেম্বরের মধ্যে আফগানিস্তান থেকে সব সেনা ফিরিয়ে নিবে যুক্তরাষ্ট্র।

প্রেসিডেন্টের এ ঘোষণার ফলে যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসের সবচেয়ে দীর্ঘতম যুদ্ধের অবসান হলো। ২০০১ সালের ১১ সেপ্টেম্বর থেকে আফগানিস্তানে সেনা পাঠিয়ে যুদ্ধ শুরু করেছিল মার্কিন প্রশাসন। 

বাইডেন জানান, আফগানিস্তানে মার্কিনিদের যুদ্ধ প্রজন্মের পর প্রজন্ম ধরে চলার জন্য শুরু হয়নি। যে লক্ষ্য অর্জনের জন্য যুদ্ধ শুরু হয়েছিল তা হাসিল হয়েছে। ফলে এখনই সময় চিরতরে এই যুদ্ধের অবসান ঘটানোর। 

২০০১ সালে আফগানিস্তানে যুদ্ধ শুরুর পর এ পর্যন্ত প্রাণ হারিয়েছেন ২ হাজার ৩শ মার্কিন সেনা। আহত হয়েছে ২০ হাজার ৬৬০ জন। এ ছাড়া প্রায় দুই লাখ বেসামরিক আফগান নাগরিক হতাহত হয়েছে এই যুদ্ধে। ২০ বছর ধরে চলা এই যুদ্ধে ওয়াশিংটনের খরচ হয়েছে ২ লাখ কোটি ডলার।

news24bd.tv / কামরুল 

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

ভারতে একদিনে করোনা শনাক্তের রেকর্ড

অনলাইন ডেস্ক

ভারতে একদিনে করোনা শনাক্তের রেকর্ড

ভারতে গত ২৪ ঘণ্টায় ২ লাখ ৭৩৯ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছে। করোনার সংক্রমণ প্রথমবারের মতো এমন ভয়াবহ মাইলফলক স্পর্শ করছে। দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় বৃহস্পতিবার এ তথ্য জানিয়েছে। 

কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে টাইমস অব ইন্ডিয়া জানিয়েছে, রেকর্ড সংখ্যক আক্রান্তের পাশাপাশি এদিনও মৃত্যুর সংখ্যা ১ হাজার পেরিয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে আরও ১ হাজার ৩৮ জনের মৃত্যু হয়েছে।

গত কয়েকদিন ধরেই দেশটিতে ধারাবাহিকভাবে করোনায় আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা বাড়ছে। গত অক্টোবরের শুরুতে দেশটিতে দৈনিক মৃত্যু ১ হাজারের আশপাশে ছিল। তবে তা কমে ১০০-র নিচেও নেমেছিল। এখন আবারও মৃতের সংখ্যা বাড়ছে।

আরও পড়ুন


বিশ্বে একদিনে করোনায় ১৩৫৩২ জনের মৃত্যু

হেফাজতের আরেক সহকারী মহাসচিবকে আটকের অভিযোগ

তাহাজ্জুদ নামাজ পড়ার নিয়ম, সময় ও রাকাআত

খালেদা জিয়াকে জাপানের রাষ্ট্রদূত ও পাকিস্তান হাইকমিশনারের চিঠি


যুক্তরাষ্ট্রের পর দ্বিতীয় দেশ হিসেবে ভয়াবহ এই মাইলফলক স্পর্শ করল বাংলাদেশের প্রতিবেশী দেশ ভারত। একদিনে আক্রান্তের সংখ্যা ২ লাখ ছাড়িয়ে যেতে ২২ দিন লেগেছিল। সেখানে ভারতের ক্ষেত্রে এই সময়টা লেগেছে মাত্র ১০ দিন। তবে যুক্তরাষ্ট্রে শেষ পর্যন্ত একদিনে সর্বোচ্চ ৩ লাখ ৯ হাজার ৩৫ জন আক্রান্ত হয়েছিল। ভারতের ক্ষেত্রেও এমনটা ঘটেনি এখন সেটাই দেখার বিষয়। তবে সংক্রমণ যেভাবে বাড়ছে তাতে সেই মাইলফলক স্পর্শ করাটাও অসম্ভব মনে হচ্ছে না।

news24bd.tv / কামরুল 

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

বিশ্বে একদিনে করোনায় ১৩৫৩২ জনের মৃত্যু

অনলাইন ডেস্ক

বিশ্বে একদিনে করোনায় ১৩৫৩২ জনের মৃত্যু

করোনা ভাইরাস বিশ্বে ভয়াবহ রূপ ধারণ করেছে। এতে আক্রান্তের সংখ্যার সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে মৃত্যুও। বিশ্বে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় ১৩ হাজার ৫১৩ জন মারা গেছে। নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ৮ লাখ ৪ হাজার ৩১৬ জন। টিকা আবিষ্কারের পরও কমানো যাচ্ছে না এ মহামারি।ওয়ার্ল্ডোমিটার সূত্রে এ তথ্য পাওয়া গেছে।

ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্য অনুয়ায়ী, সারাবিশ্বে এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১৩ কোটি ৮৮ লাখ ৩৩ হাজার ১২৭ জন। মৃত্যু হয়েছে ২৯ লাখ ৮৫ হাজার ৫২১ জনের। আর সুস্থ হয়েছেন ১১ কোটি ১৬ লাখ ১২ হাজার ৮৫২ জন।

সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বে করোনা ভাইরাস আক্রান্ত হয়ে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে। দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনায় মৃত্যু হয়েছে ৫ লাখ ৭৮ হাজার ৯২ জন। শনাক্ত হয়েছে ৩ কোটি ২১ লাখ ৪৯ হাজার ২২৩ জন। আর করোনা থেকে সুস্থ হয়েছেন ২ কোটি ৪৬ লাখ ৯৬ হাজার ১৬১ জন।

যুক্তরাষ্ট্রের পর করোনায় সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত দেশ ভারত। এশিয়ার মধ্যে ভারত করোনায় বেশি বিপর্যস্ত। দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে ১ কোটি ৪০ লাখ ৭০ হাজার ৮৯০ জন এবং মারা গেছেন ১ লাখ ৭৩ হাজার ১৫২ জন।

এছাড়া তালিকার তৃতীয় স্থানে রয়েছে ব্রাজিল। লাতিন আমেরিকার এই দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ১ কোটি ৩৬ লাখ ৭৭ হাজার ৫৬৪ জন। তাদের মধ্যে মারা গেছেন ৩ লাখ ৬২ হাজার ১৮০ জন। আর সুস্থ হয়েছেন ১ কোটি ২০ লাখ ৭৪ হাজার ৭৯৮ জন।

এতে বাংলাদেশের অবস্থান ৩৩তম। এখন পর্যন্ত দেশে ৭ লাখ ৩ হাজার ১৭০ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। মৃত্যু হয়েছে ৯ হাজার ৯৮৭ জনের। সুস্থ হয়েছেন ৫ লাখ ৯১ হাজার ২৯৯ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় বাংলাদেশে রেকর্ড ৯৬ জনে মৃত্যু হয়েছে।

news24bd.tv / কামরুল 

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

যে কারণে বাজেয়াপ্ত করা হলো সুয়েজ খালে আটকে পড়া সেই জাহাজ

অনলাইন ডেস্ক

যে কারণে বাজেয়াপ্ত করা হলো সুয়েজ খালে আটকে পড়া সেই জাহাজ

ঝড়ের কবলে পড়ে মিশরের সুয়েজ খালে আটকে পড়া বিশাল আকৃতির জাহাজ এভার গিভেনকে বাজেয়াপ্ত করেছে মিশর সরকার। ক্ষতিপূরণের ৯০০ মিলিয়ন ডলার না দেয়া পর্যন্ত জাহাজটি মিশরের অধীনে থাকবে। আদালতের নির্দেশের পরই এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে কর্তৃপক্ষ। এক বিবৃতিতে সুয়েজ খাল কর্তৃপক্ষ এসব তথ্য জানায়।

কর্তৃপক্ষের দাবি, সুয়েজ খালে জাহাজটি এক সপ্তাহ আটকে থাকার কারণে যে ক্ষতি হয়েছে তা ১০০ কোটি ডলারের মত হবে। জাহাজটি বিশ্ব বাণিজ্যের গুরুত্বপূর্ণ পথকে অবরুদ্ধ করেছিল।

এভার গিভেনের জাপানি মালিক শোয়েই কাইজেন কাইশা লিমিটেড জানিয়েছে, মিসরের একটি আদালতের কাছ থেকে আদেশ পাওয়ার পরে খাল কর্তৃপক্ষ জাহাজটি নিয়ে যায়।

সংস্থাটির মুখপাত্র রিউ মুরাকোশি বলেন, ‘তারা এখনও আমাদের সঙ্গে কথা বলছে। আমরা ক্ষতিপূরণের বিষয়ে আলোচনা চালিয়ে যাব।’

আরও পড়ুন


শত্রুতা করে রাতে কেটে দেয়া হলো ১৮০ আমগাছের চারা

সেমিতে ম্যানচেস্টার সিটি, প্রতিপক্ষ নেইমার-এমবাপ্পের পিএসজি

চ্যাম্পিয়ন্স লিগের সেমিতে রিয়াল, লিভারপুলের বিদায়

টিকার দ্বিতীয় ডোজ নেয়ার পরে করোনা আক্রান্ত সাংসদ বাদশা


সুয়েজ খাল কর্তৃপক্ষের প্রধান ওসামা রাবি জানিয়েছেন, এভার গিভেন জাহাজটি ক্ষতিপূরণের ৯০০ মিলিয়ন ডলার দিতে ব্যর্থ হওয়ায়, সেটিকে বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে।

তবে অপর একটি সূত্রের মতে, আপাতত জাহাজটির জাপানি মালিক, সেটির সংস্থা, ইনসিওরেন্স কোম্পানি এবং সুয়েজ খাল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে ক্ষতিপূরণের অর্থ নিয়ে আলোচনাও চলছে।

এর আগে গত ২৩ মার্চ এভার গিভেন জাহাজটি সুয়েজ খালে আটকে পড়েছিল। ফলে দু’দিক থেকে আটকে পড়েছিল কয়েকশ' পণ্যবাহী জাহাজ। টানা এক সপ্তাহের প্রাণান্ত চেষ্টায় জাহাজটিকে সোজা করান যায়। কিন্তু ততদিনে মিলিয়ন মিলিয়ন ডলার ক্ষতি হয় সুয়েজ খাল কর্তৃপক্ষের।

news24bd.tv আহমেদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

ইরাকের মার্কিন বিমান ঘাঁটিতে হামলা, শক্তিশালী বিস্ফোরণ

অনলাইন ডেস্ক

ইরাকের মার্কিন বিমান ঘাঁটিতে হামলা, শক্তিশালী বিস্ফোরণ

ইরাকের উত্তরাঞ্চলীয় কুর্দিস্তান অঞ্চলের রাজধানী এরবিলে মার্কিন বিমান ঘাঁটিতে রকেট হামলার ঘটনা ঘটেছে। ইরাকের নিউজ চ্যানেল ‘সাবিরিন’ ও কাতার ভিত্তিক গণমাধ্যম আলজাজিরা নেটওয়ার্ক এ খবর জানিয়েছে। তারা বলেছে, বুধবার রাতে ওই ঘাঁটিতে হামলার ফলে বড় ধরনের বিস্ফোরণ ও আগুন লেগে যাওয়ার ঘটনা ঘটে।

ইরাকি চ্যানেলটি স্থিরচিত্র ও ভিডিও ফুটেজ প্রকাশ করে জানায়, বিস্ফোরণের পরপরই মার্কিন ঘাঁটিতে আগুন ধরে যায় এবং এর দৃশ্য বহুদূর থেকে দেখা গেছে। মার্কিন কনস্যুলেট ও এরবিল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে যাওয়ার সড়ক তাৎক্ষণিকভাবে বন্ধ করে দিতে হয়।ইরাকের আরেকটি টিভি চ্যানেল জানিয়েছেন, খোদ এরবিল বিমানবন্দরও বন্ধ করে দেয়া হয়েছে।

ইরাকি সাংবাদিকরা এ খবরের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন যে, অন্তত একটি রকেট মার্কিন বিমান ঘাঁটিতে আঘাত হেনেছে। তারা বলছেন, হামলার পরপরই আকাশে বহু বিমানের আনাগোনা দেখা গেছে যেগুলোকে তারা মার্কিন ড্রোন বলে নিশ্চিত করেছেন।

আরও পড়ুন


সতীর্থকে দিয়ে চুল কাটাচ্ছেন সাকিব, ভিডিও ভাইরাল (ভিডিও)

তারাবির নামাজ ৮ রাকাত না ২০ রাকাত?

তাহাজ্জুদ নামাজ পড়ার নিয়ম, সময় ও রাকাআত

হেফাজতের কেন্দ্রীয় সহকারী মহাসচিবকে আটকের অভিযোগ


এরবিলের গভর্নর ওমেদ খোশনাউ দাবি করেছেন, হামলায় কেউ হতাহত হয়নি। এখন পর্যন্ত কোনো ব্যক্তি বা গোষ্ঠী এ হামলার দায়িত্ব স্বীকার করেনি। ইরাকের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এ হামলার ব্যাপারে তদন্ত কমিটি গঠন করেছে।

এরবিলের এই ঘাঁটির পাশাপাশি ইরাকের পশ্চিমাঞ্চলীয় আনবার প্রদেশের ‘আইন আল-আসাদ’ হচ্ছে ইরাকে আমেরিকার সবচেয়ে বড় দু’টি সামরিক ঘাঁটি। অতীতেও এই দু’টি মার্কিন ঘাঁটি বহুবার রকেট হামলার শিকার হয়েছে। সূত্র: পার্সটুডে।

news24bd.tv আহমেদ

মন্তব্য

পরবর্তী খবর