৭ সন্তান নিতে স্বেচ্ছায় দেড় লাখ ডলার জরিমানা গুনলেন চীনা দম্পতি
৭ সন্তান নিতে স্বেচ্ছায় দেড় লাখ ডলার জরিমানা গুনলেন চীনা দম্পতি

৭ সন্তান নিতে স্বেচ্ছায় দেড় লাখ ডলার জরিমানা গুনলেন চীনা দম্পতি

অনলাইন ডেস্ক

বর্তমানে চীনে কোন দম্পতি সর্বোচ্চ দুইটি সন্তান নিতে পারে। এর বেশি হলে নিয়মভঙ্গের দায়ে তাদেরকে জরিমানা দিতে হয়। সেই নিয়মে এক চীনা দম্পতি ৭ জন সন্তান নিয়ে স্বেচ্ছায় জরিমানা দিয়েছেন প্রায় ১ লাখ ৫৫ হাজার ডলার। খবর সাউথ চায়না মর্নিং পোষ্ট এর।

২০১৫ সাল পর্যন্ত চীনা দম্পতিরা একটি সন্তান নিতে পারতো। এর পর দুই সন্তান নীতি গ্রহণ করে তারা। এর বেশি সন্তান নিতে হলে ‘সোশ্যাল সাপোর্ট ফি’ নামে স্থানীয় সরকারকে জরিমানা প্রদান করতে হয়। এই জরিমানা না দেওয়া হলে দুইয়ের পর থেকে যে সন্তান হয় তারা দেশটির কোন সরকারি কাগজপত্র পায় না।

চীনের দক্ষিণে গুয়াংজং প্রদেশে বাস করেন এই দম্পতি। ঝ্যাং পেশায় স্কিনকেয়ার, গহনা ও কাপড়ের ব্যবসা করেন। তিনি মর্নিং পোষ্টকে বলেন, তাদের যেন একা থাকতে না হয় এ কারণে আগে থেকেই একাধিক সন্তান নেয়ার ইচ্ছে ছিল।

news24bd.tv

৫ জন পুত্র ও ২ কন্যা সন্তান নিয়ে পেশায় ব্যবসায়ী ঝ্যাং রংরং (৩৪) ও তার স্বামী (৩৯) মোট ৭ জন সন্তানের বাবা-মা। বাচ্চাদের সবার বয়সই এক থেকে ১৪ বছরের মধ্যে।

ঝ্যাং আরও বলেন, “আমার স্বামী প্রায়ই বাইরে থাকে, তাছাড়া বড় বাচ্চাগুলোও পড়াশোনার জন্য বাইরে থাকে। এসময় আমার বাকি বাচ্চারা আমার কাছে থাকে… যখন আমি বৃদ্ধ হব, তখন তারা সবাই আমাকে দেখতে আসতে পারবে। ”


ভূতের আছর থেকে বাঁচতে পৈশাচিক কান্ড

হৃদরোগে মৃত্যুর পরও ফাঁসিতে ঝুলানো হল নিথর দেহ

টিকা নেয়ার ১২ দিন পর করোনায় আক্রান্ত ত্রাণ সচিব

যমজ ভাই অস্ত্রোপচার করে পরিণত হলেন যমজ বোনে


তিনি আরও জানান, দুই বছর আগে তার স্বামী জন্মনিয়ন্ত্রণ পদ্ধতি গ্রহণ করায় তারা আর কোন সন্তান নিবেন না। তাছাড়া তার সন্তানেরা যেন স্বচ্ছলভাবে থাকতে পারে তাই তারা তাদের ৭ম সন্তান নেয়ার আগেই নিজেদের অর্থনৈতিক সক্ষমতা নিশ্চিত করেছেন।

news24bd.tv / নকিব