রাঙামাটির সাংবাদিক জামাল হত্যা মামলায় তদন্তে ব্যর্থ প্রশাসন

ফাতেমা জান্নাত মুমু, রাঙামাটি

রাঙামাটির সাংবাদিক জামাল হত্যা মামলায় তদন্তে ব্যর্থ প্রশাসন

রাঙামাটির অন্যতম আলোচিত সাংবাদিক জামাল হত্যাকান্ডের মামলার তদন্তে ব্যর্থতার পরিচয় দিয়েছে প্রশাসন বলে অভিযোগ করেছেন গণমাধ্যাম কর্মীরা। তারা বলেন, দীর্ঘ ১৪ বছর পেরিয়ে ১৫ বছরে পর্দাপণ করলো সাংবাদিক জামাল হত্যার দিন। কিন্তু এতো বছরেও সাংবাদিক জামাল হত্যার বিচার করতে পারেনি প্রশাসন।

শুধু তাই নয়, বার বার তদন্তেও ব্যর্থতার পরিচয় দিয়েছে তারা। সাংবাদিক জামাল হত্যার বিচার না হওয়ার কারণে প্রশাসনের উপর আস্থাহীনতায় পরেছে রাঙামাটির গণমাধ্যম কর্মীরা। নিরপেক্ষ তদন্তের মধ্যে দিয়ে খুনিদের বিচারের আওতায় আনার জন্য সরকার ও প্রশাসনের কাছে জোর দাবি জানায় তারা। 

শনিবার শহরের জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সামনে চত্বরে রাঙামাটি প্রেস ক্লাবের উদ্যোগে আয়োজিত সাংবাদিক জামাল হত্যার বিচারের দাবিতে মানববন্ধনে গণমাধ্যম কর্মীরা এসব কথা বলেন। 

রাঙামাটি প্রেসক্লাবের সভাপতি সুশীল প্রসাদ চাকামরা সভাপতিত্বে এতে বক্তব্য রাখেন, সাংবাদিক নন্দন দেবনার্থ, সাংবাদিক মিল্টন বড়ুয়া, সাংবাদিক সৈকত রঞ্জন বড়ুয়া প্রমুখ। 

মানববন্ধনে গণমাধ্যম কর্মীরা অভিযোগ করে আরও বলেন, যেদিন পুলিশ জামালের রক্তাত্ব লাশ উদ্দার করেছিল সেদিন সুরতহাল রিপোর্টেও তার শরীরের ক্ষতবিক্ষত চিহ্নও উল্লেখ্য করা হয়। এতে প্রমাণ হয় কিভাবে ওই খুনিরা তাকে কতটা কষ্ট দিয়ে হত্যা করেছে।


‘চুম্বন বা অন্তরঙ্গ দৃশ্যয়নের আগে একান্তে সময় কাটাই’

শেবাগ-শচিনের জুটিই হারিয়ে দিল বাংলাদেশকে

মন্ত্রী ও বিধায়ককে বাদ দিয়ে প্রার্থী চূড়ান্তে মমতার চমক!

শনিবার ঢাকার যে এলাকায় যাবেন না


এর পরও প্রশাসন কেন বার বার তদন্তে ব্যর্থতার পরিচয় দিয়েছে সে প্রশ্নের উত্তর কে দিবে? সাংবাদিক হত্যার বিচার নাওয়া হওয়ার কারণে দেশের সাংবাদিকরা নিরাপত্তাহীন। 

বার বার হত্যা, নির্যাতন, গুমের শিকার হচ্ছে গণমাধ্যমকর্মীরা। রাঙামাটির সাংবাদিক জামালসহ সকল সাংবাদিক হত্যা নির্যাতণের বিচার করা না হলে প্রশাসনের উপর আস্থাহীনতায় পরবে গণমাধ্যম। অবিলম্বে সাংবাদিক জামাল হত্যার বিচারের দাবি জানান গণমাধ্যম কর্মীরা। 

প্রসঙ্গত, ২০০৭ সালে ৫ মার্চ নিখোঁজ হয় রাঙামাটির সাংবাদিক মো. জামাল উদ্দীন। এরপর ৬ মার্চ রাঙামাটি পর্যটন এলাকার হেডম্যান পাড়ার জঙ্গলে তার রক্তাত্ব মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। সাংবাদিক জামাল সে সময় পার্বত্যাঞ্চলের একজন সাংবাদিক ছিলেন। তিনি মৃত্যুর আগ পর্যন্ত দৈনিক বর্তমান বাংলা, বার্তা সংস্থা আবাস ও বেসরকারি টেলিভিশন এনটিভিতে কর্মরত ছিলেন। 

news24bd.tv/আয়শা

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

বিমানবন্দরে গুলিসহ আটক, কাগজপত্র দেখিয়ে ছাড়া পেলেন দম্পতি

অনলাইন ডেস্ক

বিমানবন্দরে গুলিসহ আটক, কাগজপত্র দেখিয়ে ছাড়া পেলেন দম্পতি

হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের অভ্যন্তরীণ টার্মিনালে পিস্তলের গুলি, ম্যাগাজিনসহ এক দম্পতিকে আটক করে বিমানবন্দর থানায় সোপর্দ করে  বিমান্দরের কর্তব্যরত শুল্ক কর্মকর্তারা। পরে ওই দম্পতিকে কাগজপত্র যাচাই শেষে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। বৃহস্পতিবার বিকেলে তারা ছাড়া পান।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, আজ সকালে চিকিৎসক তানজিনা মাহিনুর ও তার স্বামী ব্যবসায়ী মোশাহিদ রহমান যশোর যাওয়ার উদ্দেশে শাহজালাল বিমানবন্দরের অভ্যন্তরীণ টার্মিনাল আসেন। তারা বোর্ডিং পার হওয়ার সময় স্ক্যানিং যন্ত্রে ব্যাগে পিস্তলের ম্যাগাজিন ও পাঁচটি গুলি পাওয়া যায়। এ সময় কর্তব্যরত শুল্ক কর্মকর্তারা তাদের আটক করে বিমানবন্দর থানায় সোপর্দ করেন।

বিমানবন্দর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বি এম ফরমান আলী বলেন, জিজ্ঞাসাবাদে দম্পতি জানান, সকাল আটটার দিকে ইউএস বাংলার অভ্যন্তরীণ ফ্লাইটে তাদের যশোরে যাওয়ার টিকিট করা ছিল। তার লাইসেন্স করা পিস্তল বাসায় রেখে এলেও ভুলবশত ব্যাগে থাকা পিস্তলের গুলি ও ম্যাগাজিন নিয়ে আসেন।

পুলিশের উত্তরা বিভাগের উপকমিশনার মো. শহিদুল্লাহ বৃহস্পতিবার রাতে বলেন, পিস্তলের লাইসেন্সসহ প্রয়োজনীয় কাগজপত্র দেখানোর পর বিকেলে ওই দম্পতিকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

news24bd.tv/আলী

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

অন্য নারীকে বিয়ে : যুবককে তুলে নিয়ে বিশেষ অঙ্গ কাটার চেষ্টা

অনলাইন ডেস্ক

অন্য নারীকে বিয়ে : যুবককে তুলে নিয়ে বিশেষ অঙ্গ কাটার চেষ্টা

অন্য নারীকে বিয়ে করার জেরে এক যুবকের লিঙ্গ কাটার চেষ্টার অভিযোগে থানায় মামলা হয়েছে। বুধবার রাতে  নেত্রকোনার দুর্গাপুর থানায় মামলাটি করেন ওই যুবকের বড় ভাই।

মামলার এজাহারে উল্লেখ করা হয়, ওই যুবক বাজারে মোবাইল সার্ভিসিং ও মোবাইল ফোনে গান ডাউনলোডের কাজ করেন। সেই সুবাদে ওই নারীর সঙ্গে পরিচয় ঘটে। এরপর প্রায় সময় ভুক্তভোগী যুবককে ওই নারী নানান প্রলোভন দেখিয়ে বিয়ে করার প্রস্তাব দিয়ে আসছিলেন। কিন্তু এতে যুবকটি রাজি না হওয়ায় যুবকের বন্ধুদের কাছে ওই নারী বিভিন্ন সময়ে নালিশ করেন এবং দেখে নেওয়ার হুমকিও দেন। একপর্যায়ে প্রায় ১ বছর ধরে ওই নারীর মোবাইল ফোন ধরেননি যুবক। পরবর্তীতে গত দুই সপ্তাহ আগে ওই যুবক অন্য এক নারীকে বিয়ে করেন। এরই জের ধরে মঙ্গলবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে উপজেলার নলুয়াপাড়া চায়না মোড় ব্রিজের ওপর থেকে ওই যুবককে তুলে নেন সেই নারী।

গামছা দিয়ে চোখ-মুখ বেঁধে অটোরিকশায় করে অজ্ঞাত স্থানে নিয়ে যান ওই নারী তার বাবা, দুই ভাই ও অজ্ঞাত আরও চারজন। পরে ছুরি বের করে অন্য অভিযুক্তদের সহায়তায় যুবকের লিঙ্গ কাটার চেষ্টা করেন ওই নারী। একপর্যায়ে ওই যুবক জ্ঞান হারিয়ে ফেললে অভিযুক্তরা পালিয়ে যান। পরে তার জ্ঞান ফিরলে তার সাথে থাকা মোবাইলে ঘটনাটি পরিবারের লোকজনকে জানালে চন্দ্রকোনার ব্রিজ সংলগ্ন বালুচর থেকে ওই যুবককে উদ্ধার করেন স্বজনরা। পরে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

পরদিন বুধবার রাতে এ ঘটনায় যুবকের বড় ভাই বাদী হয়ে অভিযুক্ত নারী, নারীর পিতা, দুই ভাইসহ অজ্ঞাত আরও চারজনকে আসামি করে দুর্গাপুর থানায় একটি মামলা করেন। 

দুর্গাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহ নুর এ আলম মামলার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, ওই যুবক ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। তার লিঙ্গ কাটার চেষ্টা করা হয়েছিল। এখন তিনি ভালো আছেন। 

news24bd.tv/আলী

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

অপহৃত মাদ্রাসা ছাত্রের লাশ বান্দরবানে উদ্ধার, আটক ২

অনলাইন ডেস্ক

অপহৃত মাদ্রাসা ছাত্রের লাশ বান্দরবানে উদ্ধার, আটক ২

অপহৃত এক মাদ্রাসা ছাত্রের লাশ বান্দরবানের লামা থেকে মাটি চাপা অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে। বুধবার রাত ২টার দিকে বান্দরবানের লামা উপজেলার রূপসীপাড়া ইউনিয়নের শিং ঝিড়ি এলাকায় পুলিশ অভিযান চালিয়ে লাশটি উদ্ধার করে। 

মাদ্রাসা ছাত্রের নাম মোহাম্মদ অলিউল্লাহ স্বাধীন (১৭) মাদ্রাসা ছাত্রের বাড়ি কুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলার বিষুপুর গ্রাম।

এদিকে ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে পুলিশ লামা উপজেলার বেতঝিড়ি এলাকা থেকে ফয়েজ আহমেদ (৩৮) ও আরিফুল ইসলাম (১৮) নামের দুজনকে আটক করেছে। এদের মধ্যে আরিফুল ইসলাম অপহৃত মাদ্রাসা ছাত্রের আপন ফুফাতো ভাই।

লামা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিজানুর রহমান জানান, গত ২২শে মার্চ মাদ্রাসা ছাত্র মোহাম্মদ অলিউল্লাহ বেড়ানোর কথা বলে তার ফুফাতো ভাই আরিফুল ইসলামের সাথে বের হয়, পরে তাদের আর কোনো খোঁজ না পাওয়ায় দুদিন পর দেবিদ্বার থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করে অলিউল্লাহর পরিবার।

পরে পুলিশ ঐ সূত্র ধরে বান্দরবানের লামা উপজেলার রূপসীপাড়া ইউনিয়নের বেতঝিড়ি এলাকা থেকে আরিফুল ইসলাম ও ফয়েজ আহমদ নামের দু'জনকে আটক করে। পরে জিজ্ঞাসাবাদে তাদের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে রাতে পুলিশ লামার শিংঝিড়ি গহীণ পাহাড়ে মাটি চাপা দেয়া অবস্থায় অপহৃত মাদ্রাসা ছাত্র অলিউল্লাহর লাশ উদ্ধার করে।

এই ঘটনায় লামা থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে।

news24bd.tv/আলী

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

মাওলানা আতাউল্লাহ আমীনকে তুলে নিয়ে যাওয়ার অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক

মাওলানা আতাউল্লাহ আমীনকে তুলে নিয়ে যাওয়ার অভিযোগ

হেফাজতে ইসলামের কেন্দ্রীয় সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা আতাউল্লাহ আমীনকে রাজধানীর  মোহাম্মদপুর থেকে রাত বারোটার পর সাদা পোশাকধারী বাহিনী তুলে নিয়ে গেছে বলে অভিযোগ করেছে হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ।

মাওলানা আতাউল্লাহ আমীন হেফাজতের ঢাকা মহানগরীর সহ-সাধারণ সম্পাদক এবং  বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের যুগ্ম মহাসচিব।

বিস্তারিত আসছে..

news24bd.tv/আলী

মন্তব্য

পরবর্তী খবর

পাহাড়ে বন্য ভাল্লুকের আক্রমণে আহত কৃষক

অনলাইন ডেস্ক

পাহাড়ে বন্য ভাল্লুকের আক্রমণে আহত কৃষক

পাহাড়ে জুম ক্ষেতে কাজ করে ফেরার সময় কৃষক তংতং ম্রো (৩৫) নামে এক কৃষক বন্য ভাল্লুকের আক্রমণে আহত হয়েছে।

বান্দরবানের রুমা উপজেলায় আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এ ঘটনা ঘটে।

আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ও স্থানীয়রা জানায়, জেলার রুমা উপজেলার গ্যালেংগা ইউনিয়নের আবুপাড়া এলাকায় পাহাড়ে জুম ক্ষেতে কাজ করে ফেরার সময় কৃষক তংতং ম্রো (৩৫) বন্য ভাল্লুকের আক্রমণের শিকার হন। ভাল্লুকের আক্রমণের খবর পেয়ে স্থানীয়দের সহযোগিতায় সেনাবাহিনীর সদস্যরা আহত অবস্থায় তাঁকে উদ্ধার করে রুমা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।

আহত তংতং ম্রো গ্যালেংগা ইউনিয়নের ৭ নম্বর ওয়ার্ডের আবুপাড়ার বাসিন্দা রিতু ম্রোর ছেলে। প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে উন্নত চিকিৎসার জন্য সেনাবাহিনী তাঁকে রুমা থেকে বান্দরবান সদর হাসপাতালে নিয়ে যায়।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে রুমা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল কাসেম জানান, বন্য ভাল্লুকের আক্রমণে এক কৃষক আহত হয়েছেন। প্রাথমিক চিকিৎসার পর আহত কৃষককে রাতে বান্দরবান পাঠানো হয়েছে।

news24bd.tv/আলী

মন্তব্য

পরবর্তী খবর