তিন বছর বলতে পারিনি ডিভোর্স হয়েছে : বাঁধন

অনলাইন ডেস্ক

তিন বছর বলতে পারিনি ডিভোর্স হয়েছে : বাঁধন

আজমেরী হক বাঁধন। ছবি ফেসবুক

আজমেরী হক বাঁধন ২০০৬ সালে লাক্স চ্যানেল আই সুপারস্টার প্রতিযোগিতায় রানার আপ হয়ে শোবিজ জগতে যাত্রা শুরু করেন। এরপর টিভিসি, নাটক-টেলিছবিতে অভিনয় করে জনপ্রিয় অভিনেত্রী হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হয়েছেন। এখন সমাজের বিশেষত নারীদের নানান অসঙ্গতি দেখলেই তিনি সরব।

মাশরুর সিদ্দিকী সনেটকে বিয়ে করেন ২০১০ সালে বাঁধন। সেই বছরই জন্ম নেয় তাদের একমাত্র সন্তান মিশেল আমানী সায়রা। বিয়ের চার বছরের মাথায় দাম্পত্য প্রতিকূলতার মুখে আলাদা হয়ে যান এই দম্পতি। ২০১৪ সালের ২৬ নভেম্বর আনুষ্ঠানিকভাবে ডিভোর্স হয় তাদের।বিয়ে সংসার ও বিচ্ছেদই কি বদলে দিলো বাধঁনকে? জানিয়েছেন সেসব কথা অভিনেত্রী নিজেই। 

বিয়ে ও আমাদের সমাজের বর্তমান বাস্তবতা নিয়ে বাঁধন জানিয়েছেন, সমাজের ছকে বাঁধা আর শজন নারীর মত আমিও একজন আদর্শ নারীই হতে চেয়েছি। এই শিক্ষাটাই আমাকে ছোট থেকে শেখানো হয়েছিলো। সমাজ- রাষ্ট্র ও পরিবার সকলে মিলেই আমাকে এই শিক্ষাই দিয়েছে।

বাঁধন আরও বলেন, আমাদের এই সমাজ ব্যবস্থা পুরোপুরি পুরুষতান্ত্রিক। আর সেই পুরুষতান্ত্রিকতাই আমাকে শিখিয়েছে, আমি যেন সমাজের ছকে বাঁধা আদর্শ নারী হই। আর যদি সেটা হতে না পারি, তাহলে আমি ব্যর্থ এবং আমার মৃত্যুই অনিবার্য। এছাড়া মুক্তির আর কোন পথ নাই।

এতোটা দিন এই শিক্ষায় শিক্ষিত ছিলাম।  আমাদের দেশের প্রত্যেকটা মেয়েকেই এই বেড়াজালের মধ্য দিয়েই বড় হতে হয়। ভাবুন, আমি বুঝতেই পারলাম না আমার স্বাধীনতা কি! আমার অধিকার কি! আমি জানতেই পারলাম না যে, আমিও একজন মানুষ। জীবন থেকে ৩৪টা বছর পেরিয়ে যাওয়ার পর আমি এই সত্যটা উপলব্ধি করতে পারলাম। এটাই কি জীবন!


অনলাইনে পণ্য ডেলিভারি বিলম্বে করা যাবে মামলা

স্বামীর দাবীতে প্রথম বউয়ের বাড়িতে দ্বিতীয় বউ

সামাজিক মাধ্যম ছাড়ার ঘোষণা আমিরের

সাধ্যের মধ্যে ৮ জিবি র‍্যামের রেডমি ফোন


 

আজমেরী হক বাঁধন  আরও বলেন,আমি জেনে এসেছি যে, সহ্য করে যাওয়াটাই হচ্ছে একজন আদর্শ নারীর কাজ। সব মেনে না নিলে আমি একজন ভালো নারী হতে পারবোনা। আমি তিনটি বছর কাউকে বলতে পারিনি যে, আমার ডিভোর্স হয়েছে। কারন এ সমাজ আমাকে আর আমার মেয়েকে কোন দৃষ্টিতে দেখবে এই ভয়ে। স্কুলে তাকে কোন অবস্থার সম্মুখীন হতে হবে সেই চিন্তায়।

আমার বোধই আমার শক্তি। আমি প্রতিবাদ করেছি এবং করবো। কারণ এটা আমার অধিকার। আমার স্বাধীনতা আমার অধিকার। একটা স্বাধীন দেশের নাগরিক হয়েও কেন আমি পরাধীনতার শৃঙ্খলে বাঁধা থাকবো।

এদিকে কাজী নজরুল ইসলামের গান নিয়ে নির্মিত ‘জয় হোক, জয় হোক’ মিউজিক্যাল ফিল্মে অভিনয় করেছেন লাক্সতারকা আজমেরী হক বাঁধন। গানটি ২৫ মার্চ আনুষ্ঠানিক লঞ্চিং হবে, আর মুক্তি পাবে পরেরদিন, স্বাধীনতা দিবসে। যেখানে নিজেকে ভিন্নভাবে উপস্থাপন করেছেন তিনি। এর আগে, সম্প্রতি বাঁধন সৃজিত মুখার্জি পরিচালিত ‘রবীন্দ্রনাথ এখানে কখনও খেতে আসেননি’ নামের একটি ওয়েব সিরিজে অভিনয় করেছেন। সেখানে মুশকান জুবেরী চরিত্রে দেখা যাবে তাকে।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

মিস ইউনিভার্স হলেন 'লিঙ্গ বৈষম্য দূরীকরণে' কাজ করা মেক্সিকান সুন্দরী

অনলাইন ডেস্ক

মিস ইউনিভার্স হলেন 'লিঙ্গ বৈষম্য দূরীকরণে' কাজ করা মেক্সিকান সুন্দরী

৬৯তম মিস ইউনিভার্স প্রতিযোগিতার বিজয়ী হলেন মেক্সিকোর প্রতিযোগী আন্দ্রেয়া মেজা। তিনি মিস ইউনিভার্স শিরোপা জয়ী তৃতীয় মেক্সিকান নারী।

আজ সোমবার বিজয়ী ঘোষণা করার পর আন্দ্রেয়া মেজাকে মুকুট পরিয়ে দেন গত বছরের মিস ইউনিভার্স জোজোবিনি তুনজি।

এ বছর সেরা পাঁচে মিস মেক্সিকোর পাশাপাশি আরও জায়গা করে নিয়েছিলেন মিস ইন্ডিয়া, মিস ব্রাজিল, মিস পেরু, মিস ডমিনিকান রিপাবলিক।


আরও পড়ুনঃ


গ্রহাণু ঠেকাতে অন্তত পাঁচ বছর সময় লাগবে: নাসা

ইসরাইলের বর্বর আক্রমণ কেবলই ক্ষমতার জন্য: বেলা হাদিদ

হামলায় ইসরাইলের একক আধিপত্যের যুগ শেষ: হামাস

ভারতের দিকে ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় ‘তাওকত’, রেড অ্যালার্ট


এ বছর মিস ইউনিভার্স শিরোপা জয়ী আন্দ্রেয়া মেজা পেশায় সফটওয়্যার প্রকৌশলী। তিনি লিঙ্গ বৈষম্য দূরীকরণেও কাজ করছেন। 

news24bd.tv / নকিব

পরবর্তী খবর

গঙ্গায় ভেসে যাওয়া লাশ নাইজেরিয়ার: কঙ্গনা

অনলাইন ডেস্ক

গঙ্গায় ভেসে যাওয়া লাশ নাইজেরিয়ার: কঙ্গনা

করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত মানুষের লাশ গঙ্গায় ভেসে যাওয়ার বিষয়ে বেশ কিছুদিন ধরেই গণমাধ্যমের আলোচনায় আসছে। এমনকি লাশ ভেসে যাওয়ার দৃশ্য ছড়িয়ে পড়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়ও। অভিযোগ উঠছে, কোভিড রোগীদের মৃতদেহ পোড়ানোর জায়গা নেই বলে নদীতে ভাসিয়ে দেওয়া হচ্ছে।

কিন্তু সব অভিযোগ উড়িয়ে দিয়ে নিজের মতো উদ্ভট যুক্তি দাঁড় করাচ্ছেন বলিউড অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাউত। দেশের বদনাম করার জন্য এ সব ভুয়া ছবি নেট দুনিয়ায় ছড়িয়ে দেওয়া হচ্ছে বলে দাবি করেছেন তিনি।

তিনি আরও বলেন, ভারতবর্ষে এমন কোনও ঘটনাই ঘটেনি। ছবিগুলো আসলে নাইজেরিয়ার।


আরও পড়ুনঃ


গ্রহাণু ঠেকাতে অন্তত পাঁচ বছর সময় লাগবে: নাসা

ইসরাইলের বর্বর আক্রমণ কেবলই ক্ষমতার জন্য: বেলা হাদিদ

হামলায় ইসরাইলের একক আধিপত্যের যুগ শেষ: হামাস

ভারতের দিকে ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় ‘তাওকত’, রেড অ্যালার্ট


সম্প্রতি উত্তরপ্রদেশ, মধ্যপ্রদেশ ও বিহারে গঙ্গায় বেশ কিছু মৃতদেহ ভেসে আসতে দেখা যায়। পচাগলা দেহ জমা হচ্ছে নদীর পাড়ে।

স্থানীয়রা বলেছেন, সেগুলো কোভিড রোগীদের দেহ। শ্মশানে পোড়ানোর জায়গা না পেয়ে নদীতে মৃতদেহ ভাসিয়ে দেয়া হয়েছে।

news24bd.tv / নকিব

পরবর্তী খবর

ফিলিস্তিনে শিশুদের সারি সারি লাশ,ভাবতেই গা শিওরে ওঠে : বুবলী

অনলাইন ডেস্ক

ফিলিস্তিনে শিশুদের সারি সারি লাশ,ভাবতেই গা শিওরে ওঠে :  বুবলী

গত কয়েকদিন ধরেই চলছে ইসরায়েল-ফিলিস্তিন সংঘর্ষ। এ নিয়ে টানা সপ্তম দিনের মতো দখলদার ইসরায়েলি বাহিনীর হামলায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ১৮১ জনে দাঁড়িয়েছে। ইসরায়েলের হামলায় রক্তাক্ত মুসলিমদের প্রথম কেবলা আল আকসার ধারণভূমি। 

ইসরায়েলের বর্বরোচিত হামলায় প্রাণ হারিয়েছে অনেক শিশু। এ গণহত্যার প্রতিবাদ জানাচ্ছেন বিশ্বের নানা অঙ্গনের তারকারা।
ইসরায়েলি গণহত্যার প্রতিবাদে ক্ষোভ জানিয়েছেন বাংলাদেশি চিত্রনায়িকা শবনম ইয়াসমিন বুবলী। 

তিনি আজ রোববার (১৬ মে) ফেসবুকে লিখেছেন, ‘করোনার এই সময় যখন মানবিকতা, মহানুভবতা, ভালোবাসা, মায়া-মমতার এক নতুন পৃথিবীর ইঙ্গিত দিচ্ছে ঠিক তখনই উল্টো এক চিত্র ফিলিস্তিনে! রমজান মাস এমনকি পবিত্র ঈদুল ফিতরের দিন দেশটিতে নারকীয় তাণ্ডব চালিয়েছে ইসরায়েল!'

'ফিলিস্তিনিদের ওপর ইসরায়েলের নৃশংসতা অতীতের বর্বরতাকে ছাড়িয়ে গেছে। দফায় দফায় বিমান হামলায় শিশুদের সারি সারি লাশ, মানুষের ক্ষতবিক্ষত রক্তাক্ত শরীর! উফ, ভাবতেই গা শিওরে ওঠে। নির্বিচারে হামলা চালিয়ে ইসরায়েলিরা হত্যা করছে ফিলিস্তিনিদের। যেন পৃথিবীর বুকে জবাবদিহিতা চাওয়ারও কেউ নেই!

এভাবে আর কত হামলা হলে বিশ্বনেতাদের ঘুম ভাঙবে? জাগবে বিশ্ববিবেক? কবে থামবে নারকীয় এই তাণ্ডব?'- যোগ করেন বুবলী।

শেষবেলায় তিনি প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন, বন্ধ হোক গণহত্যা। জয় হোক মানবতার। তৈরি হোক ভালোবাসার পৃথিবী।

news24bd.tv/আলী 

পরবর্তী খবর

ইসরায়েলের পক্ষ ওয়ান্ডার ওম্যান, বিতর্কের ঝড়!

অনলাইন ডেস্ক

ইসরায়েলের পক্ষ ওয়ান্ডার ওম্যান, বিতর্কের ঝড়!

ফিলিস্তিনের গাজা উপত্যকায় নিরীহ ফিলিস্তিনিদের ওপর ইসরায়েলি হামলা অব্যাহত রয়েছে। গত কয়েকদিন ধরেই চলছে ইসরায়েল-ফিলিস্তিন সংঘর্ষ। এ নিয়ে টানা সপ্তম দিনের মতো দখলদার বাহিনীর হামলায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ১৮১ জনে দাঁড়িয়েছে।  বিমান থেকে ফেলা বোমা ও সীমান্ত থেকে বিরতিহীনভাবে ধেয়ে আসা আর্টিলারি ইউনিটের শেলের আঘাতে হতাহতের সংখ্যা প্রতিদিনই বাড়ছে।

এই পরিস্থিতিতে হলিউডের জনপ্রিয় অভিনেত্রী  'ওয়ান্ডার ওম্যান' খ্যাত গ্যাল গ্যাডট মুখ খুলেছেন, যা নিয়ে বিতর্কের ঝড় উঠেছে। 

তার বিখ্যাত সিনেমা ওয়ান্ডার ওম্যান মানুষকে বার্তা দিয়েছিল শান্তি প্রতিষ্ঠা করার, অন্যায়ের বিরুদ্ধে লড়াই করার। যুদ্ধ যে কোনও পথ নয় দেখানো হয়েছিল সেই সিনেমায়। 

গ্যাল গ্যাডট দাবি করেন, 'একটি স্বাধীন এবং সুরক্ষিত রাষ্ট্র হিসেবে ইসরায়েলের বাঁচার অধিকার রয়েছে। ঠিক একই অধিকার রয়েছে প্রতিবেশী রাষ্ট্রেরও।'

টুইটারে ভাঙা হৃদয়ের ইমোজি দিয়ে গ্যাল লিখেছেন, 'আমার হৃদয় ভারাক্রান্ত। আমার দেশ আজ যুদ্ধ করছে। পরিবার, বন্ধুবান্ধবদের জন্য চিন্তা হচ্ছে। হিংসা, পাল্টা হিংসার এই চক্র অনেক পুরনো। একটি স্বাধীন এবং সুরক্ষিত রাষ্ট্র হিসেবে বাঁচার অধিকার রয়েছে ইসরায়েলের। ঠিক একই অধিকার রয়েছে প্রতিবেশী রাষ্ট্রেরও। 

তিনি আরও বলেন, আমি মৃতদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাচ্ছি। অবিলম্বে এই শত্রুতা বন্ধের জন্য প্রার্থনা করব। আশা করি, আমাদের নেতারা একটা সমাধানসূত্র বের করবেন, যাতে দুই প্রতিবেশী দেশ শান্তিতে থাকতে পারে। 

'ওয়ান্ডার ওম্যান' খ্যাত অভিনেত্রীর এই এমন পোস্ট ঘিরে সরগরম হয়ে ওঠেছে নেট-দুনিয়া। 

একপক্ষের দাবি, ইসরায়েলের প্রোপাগান্ডা প্রচারের কাজ করছেন গ্যাল। 

অন্য পক্ষ বলছে, তিনি শুধু শান্তির পক্ষে কথা বলেছেন। 

যদিও এই অভিনেত্রী জন্মসূত্রে ইসরায়েলি, তিনি শোবিজে আসার আগে নিজ দেশের সেনাবাহিনীতে কর্মরত ছিলেন। 

news24bd.tv/আলী 

পরবর্তী খবর

আসছে 'থ্রি সিক্সটি ফাইভ ডেজ’-এর দ্বিতীয় পর্ব

অনলাইন ডেস্ক

আসছে 'থ্রি সিক্সটি ফাইভ ডেজ’-এর দ্বিতীয় পর্ব

গত বছর নেটফ্লিক্সে মুক্তি পায় মিশেল মরোন এবং আন্না মারিয়া সিক্লুকার অভিনীত সিনেমা 'থ্রি সিক্সটি ফাইভ ডেজ'৷মুক্তির পর থেকেই দারুণভাবে আলোচিত ও সমালোচিত হয় ছবিটি।

সিনেমাটি পরিচালনা করেছেন বারবারা বিয়ালওয়াস। তবে আলোচনা বা সমালোচনার বেশিরভাগই ছিল ঘরোয়া পরিবেশে সাহসী দৃশ্যের জন্য। যাই হোক, পোলিশ ভাষার এ সিনেমাটি বেশ বড় একটি সংখ্যার ভক্তকুল গড়ে নিয়েছে বিশ্বজুড়ে। সেই চাহিদার কথা ভেবেই আসছে 'থ্রি সিক্সটি ফাইভ ডেজ'র দ্বিতীয় কিস্তি।

সম্প্রতি অভিনেতা মিশেল মরোন তারেক ইনস্টাগ্রাম নোটে লেখেন, 'স্বাগতম মাসিমো। শুটিংয়ের প্রতিটি দিন তোমাকে মিস করেছি।'


আরও পড়ুনঃ


গ্রহাণু ঠেকাতে অন্তত পাঁচ বছর সময় লাগবে: নাসা

ইসরাইলের বর্বর আক্রমণ কেবলই ক্ষমতার জন্য: বেলা হাদিদ

হামলায় ইসরাইলের একক আধিপত্যের যুগ শেষ: হামাস

ভারতের দিকে ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় ‘তাওকত’, রেড অ্যালার্ট


অপরদিকে আন্না মারিয়া তার এক নোটে লেখেন, 'আজকে অসাধারণ একটি দিন। অবশেষে আমরা ফিরে আসলাম। এবার ভালো কিছু সময়ের অপেক্ষায়। নেটফ্লিক্সের সঙ্গে কাজ করতে পেরে অবশ্যই নিজেকে সম্মানিত বোধ করছি। আশা করছি সিনেমাটির শুটিং যথাসময়ে শেষ হবে।'

news24bd.tv / নকিব

পরবর্তী খবর