২৫শে মার্চ রাতে পাকিস্তানী নয় বাঙালী সৈন্যরা দখল করে চট্টগ্রাম শহর

২৫শে মার্চ রাতে পাকিস্তানী নয় বাঙালী সৈন্যরা দখল করে চট্টগ্রাম শহর

২৫শে মার্চ রাতে পাকিস্তানী নয় বাঙালী সৈন্যরা দখল করে চট্টগ্রাম শহর

Other

২৫শে মার্চ রাতে পাকিস্তানী নয় বাঙালী সৈন্যরা দখল করে চট্টগ্রাম শহর। চট্টগ্রামের অস্ত্রাগার আনে নিজেদের দখলে। ক্যাপ্টেন রফিকুল ইসলাম সেই মিশনের নেতৃত্ব দেন। এক নম্বর সেক্টরের এই কমান্ডার আরও অগনিত যুদ্ধের নেতৃত্ব দেন মুক্তিযুদ্ধের সময়।

 

২৪শে মার্চ, ১৯৭১। রাত্রিবেলা। চট্টগ্রামে বিদ্রোহ করেন বাঙালী সেনারা। তাদের নেতৃত্ব দেন ক্যাপ্টেন রফিকুল ইসলাম। তিনি নিশ্চিত ছিলেন যে পাকিস্তানীরা আক্রমণ করবে। তাই তিনিই আগে পাকিস্তানীদের ওপর আক্রমণ করতে চাইলেন। কিস্তু সেনাবাহিনীর কিছু বাঙালী অফিসার তখনই আক্রমণে রাজি হলেন না। ক্যাপ্টেন রফিকুল ইসলাম তখন তার সৈন্যদের অপেক্ষা করতে বললেন। তখন ইস্ট পাকিস্তান রাইফেলস এ অ্যাডজুট্যান্ট হিসেবে দায়িত্বরত ছিলেন।


‘স্ফুলিঙ্গ’ ভালো লাগলে অন্যদের দেখতে বলুন: তৌকীর আহমেদ

নারী পুলিশকে কুপ্রস্তাব দেয়ার অভিযোগ ওসির বিরুদ্ধে

দৃষ্টিনন্দন ১৬ পরীর পালং খাট, দাম হেঁকেছেন কোটি টাকা

প্রেমিকা ছেড়ে যাওয়ায় ফেসবুকে স্টাট্যাস দিয়ে জাবি ছাত্রের আত্মহত্যা


পরের দিন ২৫শে মার্চ। রাত আটটার পরে খবর পেলেন যে পাকিস্তানীরা ঢাকায় আক্রমণের প্রস্ততি নিচ্ছে। সাথে সাথে তিনি চট্টগ্রামের অস্ত্রাগার দখল করেন।

২৬শে মার্চ ভোর বেলা। তাদের ওপর হেলিকপ্টার দিয়ে আক্রমণ করে পাকিস্তানী সৈন্যরা। বিকেলে কুমিল্লা থেকে চট্টগ্রামে আসতে থাকে অস্ত্রশস্ত্রে সজ্জিত পাকিস্তানী সৈন্য। খবর পেয়ে ক্যাপ্টেন রফিকুল ইসলাম দলবল নিয়ে পথেই অ্যামবুশ করেন। পিছু হটে পাকিস্তানী সৈন্যরা। ২রা এপ্রিলের পর পাকিস্তানীরা আবার চট্টগ্রাম দখল করে নেয়।

তখন রফিকুল ইসলাম ভারতের ত্রিপুরায় যান। সেখানে ভারতের কাছ থেকে আরও অস্ত্রশস্ত্রের ব্যবস্থা করে ফিরে আসেন চট্টগ্রামে। মুক্তিযুদ্ধের ১ নম্বর সেক্টরের কমান্ডার হিসেবে অগনিত যুদ্ধ পরিচালনা করেন ক্যাপ্টেন তিনি।  

news24bd.tv আয়শা