জ্ঞান কখনো পাবলিক-প্রাইভেট আবর্তে সীমাবদ্ধ থাকে না

রাউফুল আলম

জ্ঞান কখনো পাবলিক-প্রাইভেট আবর্তে সীমাবদ্ধ থাকে না

আমেরিকার সেরা বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর মধ্যে এমআইটি, হার্ভাড, প্রিন্সিটন, ইউপ্যান, স্ট্যানফোর্ড, ক্যালট্যাক, কলোম্বিয়া, ইয়েল এগুলো অগ্রগণ্য। বিশ্ব র‍্যাঙ্কিয়ে এই প্রতিষ্ঠানগুলো সবসময় প্রথম কুড়িটি বিশ্ববিদ্যালয়ে জায়গা করে নেয়। আপনি কী জানেন, এগুলো সবই প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয়! তবে এই প্রাইভেট ইউনিভার্সিটিগুলোর অবকাঠামো ও গবেষণার মান জগৎ সেরা। শুধু মুনাফা ভিত্তিক বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠান নয়।

শ্রেষ্ঠত্বের লড়াইয়ে টিকে থাকার জন্য এসব প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের কী পরিমাণ পরিশ্রম করতে হয়, কী পরিমাণ ইনোভেটিভ হতে হয়, সেটা বাংলাদেশে বসে কল্পনা করাও কঠিন। এ কারণেই, এসব বিশ্ববিদ‍্যালয়ের একজন শিক্ষক কিংবা ভিসি তাদের প্রেসিডেন্টের বিরুদ্ধে কথা বলতে পারে। প্রেসিডেন্টের বিরুদ্ধে মামলা করতে পারে। কারণ এখানে জ্ঞানের চর্চা হয়। যে জ্ঞানের সংজ্ঞাটাই আমাদের সমাজে আমরা বুনতে পারিনি আজো। আমাদের জ্ঞান দুর্ভাগ‍্যবশত ডিগ্রি, সনদ, চাকরি ও চামচামির মধ‍্যেই আর্বতিত!

এক যুগ আগেও, বাংলাদেশে প্রাইভেট ইউনিভার্সিটির মান নিয়ে অনেক কথা ছিলো। কিন্তু দেশের অনেক প্রাইভেট ইউনিভার্সিটি সেটার জবাব দিয়েছে।

নির্দ্বিধায় বলা যায়, দেশের অনেক পাবলিক ইউনিভার্সিটির চেয়ে, অনেক প্রাইভেট ইউনিভার্সিটির শিক্ষার মান এখন বিশ্বমানের।


করোনার কারণে ট্রেনের টিকিট বিক্রির নতুন নির্দেশনা

হেফাজতের সংবাদ বয়কটের ঘোষণা

জানাজার নামাজের জন্য হেফাজতির কাছে যাব না : এমপি মোকতাদির

কওমি মাদরাসাসহ সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকবে: জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী

গণপরিবহনে আবারো যাত্রী অর্ধেক করার নির্দেশ

করোনা আক্রান্ত হয়ে ৪৫ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ৫১৮১ জন


দেশে খারাপ মানের পাবলিক ইউনিভার্সিটি যেমন আছে, তেমনি প্রাইভেট ইউনিভার্সিটিও আছে। সুতরাং ঢালাওভাবে প্রাইভেট ইউনিভার্সিটিকে নিয়ন্ত্রণ করা অনৈতিক। ব্রাক বিশ্ববিদ‍্যালয়ে বিশ্বমানের শিক্ষক আছে। তাদের প্রশাসনিক কাঠামো আধুনিক। তারা যে মানের অভিজ্ঞ, মেধাবী একজন ভিসি নিয়োগ দিয়েছে, দেশের কয়টা পাবলিক বিশ্ববিদ‍্যালয়ে এমন একজন ভিসি আছে?

এক যুগ আগেও শুনতাম, নর্থসাউথ ইউনিভার্সিটিতে নর্থ এমেরিকান ডিগ্রি ছাড়া শিক্ষকতা করা যায় না। অথচ, ২০২১ সালে এসেও পাবলিক ইউনিভার্সিটিতে স্নাতক/স্নতকোত্তর করে শিক্ষক হওয়া যায়। অনেক ছেলে-মেয়ে বিদেশ থেকে উচ্চতর ডিগ্রি নিয়ে দেশে ফিরে পাবলিক ইউনিভার্সিটিতে চাকরি পায় না। লাঞ্ছনা-বঞ্চনার শিকার হয়। তারা যদি প্রাইভেট ইউনিভার্সিটিতে চাকরি করে, তাহলে কী তাদের মেধা হারিয়ে গেলো? তারা কী সে মেধার চর্চা প্রাইভেট ইউনিভার্সিটির স্টুডেন্টদেরকে নিয়ে করতে পারবে না?

প্রাইভেট ইউনিভার্সিটিতেও যদি ভালো মানের পড়াশুনা হয়, পিএইচডি ডিগ্রি দেওয়ার মতো শিক্ষক থাকে, তাহলে সেখানেও এই সুযোগ দেয়া উচিত। যদি সেখানে প্রফেসর এমিরেটাস হওয়ার মতো লোক থাকে, তাহলে কেন হবে না? জ্ঞান কখনো পাবলিক-প্রাইভেট আবর্তে সীমাবদ্ধ থাকে না। সীমাবদ্ধ করা উচিত না। তাহলে সমাজে জঞ্জাল তৈরি হয়।

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

প্রথম আলোর রিপোর্টারকে সচিবালয়ে স্বাস্থ্য সেবা বিভাগে আটকে হেনস্থা করা হয়েছে

ফরিদা ইয়াসমিন

প্রথম আলোর রিপোর্টারকে সচিবালয়ে স্বাস্থ্য সেবা বিভাগে আটকে হেনস্থা করা হয়েছে

প্রথম আলোর রিপোর্টার রোজিনা ইসলামকে সচিবালয়ে স্বাস্থ্য সেবা বিভাগে আটকে রেখে হেনস্থা করা হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে আমি স্বাস্থ্যমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ও তথ্যমন্ত্রীর এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিবের সংগে কথা বলেছি।

তারা বিষয়টি সমাধানের আশ্বাস দিয়েছেন। যতটুকু জেনেছি রোজিনা অসুস্থ হয়ে পড়েছে কিন্তু এখনও আটকে রাখা হয়েছে, হাসপাতালে নিতে দিচ্ছে না। 

আমি তাকে দ্রুত হাসপাতালে চিকিৎসার ব্যবস্থা করার দাবি জানাচ্ছি। 

নতুবা উদ্ভুত পরিস্থিতির জন্য দায় দায়িত্ব সংশ্লিষ্টদের নিতে হবে।

ফরিদা ইয়াসমিন,সভাপতি, জাতীয় প্রেসক্লাব

news24bd.tv/আলী 

পরবর্তী খবর

ফিলিস্তিনিদের সংগ্রামের অংশ হওয়ার তাগিদ রুমিন ফরাহানার

অনলাইন ডেস্ক

ফিলিস্তিনিদের সংগ্রামের অংশ হওয়ার তাগিদ রুমিন ফরাহানার

ফিলিস্তিনিদের সংগ্রামের অংশ হওয়ার তাগিদ রুমিন ফরাহানার। এ ব্যাপারি তিনি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন। যা হুবহু তুলে ধরা হলো-

তিনি এস্ট্যাটাসে লিখেছেন, আসুন বর্ণবাদ, সম্রাজ্যবাদের বিরুদ্ধে ফিলিস্তিনিদের নিরন্তর সংগ্রামের অংশ হই। মানুষ হিসেবে, মুসলিম হিসেবে আর নিপীড়িতের পাশে থাকার সাংবিধানিক শপথের অংশ হিসেবে।

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

বিশ্ব জুড়ে মুসলিমদের নির্যাতিত হবার কারণ হলো শিক্ষা বিমুখিতা

রুবাইয়াত সাইমুম চৌধুরী

বিশ্ব জুড়ে মুসলিমদের নির্যাতিত হবার কারণ হলো শিক্ষা বিমুখিতা

ফিলিস্তিন ইজরায়েলের যুদ্ধ ( আসলে যুদ্ধ না। এটা ইজরায়েল দ্বারা সংঘটিত গণহত্যা) বেশ কয়েকদিন ধরে চলছে। 

প্রায় ২০০ ফিলিস্তিনিকে হত্যা করা হয়েছে, যার ৫৫ জনই শিশু।

যুক্তরাষ্ট্র এ ব্যাপারে ইজরায়েলকে “ নিজের আত্মরক্ষার অধিকার আছে” বলে গণহত্যার অধিকার নিশ্চিত করেছে। আবার এই যুক্তরাষ্ট্রই চীনের উইঘুনে মুসলমান নির্যাতন নিয়ে কঠিন ভাবে চিন্তিত।

আসলে তারা ( অথবা যে কেউ) কাউকে নিয়েই ততক্ষণ চিন্তিত হয় না, যতক্ষণ না সেখানে নিজের স্বার্থ থাকে।

মুসলিম বিশ্বের কিছু দেশ বেশ গলাবাজি করে প্রতিবাদ করেছে দেখা গেলো, কিন্তু তাদের কে বিশ্ব পাত্তা দেয় না। কারণ জাতি হিসেবে তারা বেশ মূর্খ। অর্থ এসব দেশের আছে। কিন্তু জ্ঞান নেই। তাই বিশ্বে তাদের মূল্যও নেই।

কাতার বিশ্বের সবচেয়ে ধনী দেশ, সৌদি একাই তেলের বাজার ওলোটপালট করে ফেলতে পারে। কিন্তু এসব দেশের কারোরই জ্ঞান নেই। তারা না পেরেছে বিজ্ঞান চর্চা করে নিজেদের জন্য হলেও নতুন জ্ঞান তৈরি করতে করতে, না পেরেছে সৃষ্ট জ্ঞানের সর্বোচ্চ ব্যবহার করতে ।

মুসলমানদের বিশ্ব জুড়ে নির্যাতিত হবার প্রধান কারণই হলো তাদের জ্ঞান এবং শিক্ষা বিমুখিতা। তারা টাংখুর উপরে প্যান্ট পরা নিয়ে যতটা চিন্তিত , তার হাজার ভাগের এক ভাগও চিন্তিত না নতুন কোনো ঔষধ তৈরিতে। তারা মেয়েদের হিজাব নিয়ে যতটা স্পর্শকাতর তার লক্ষ ভাগের এক ভাগও স্পর্শকাতর না, সেই মেয়েদের অংক শিখতে না পারার অধিকারের ব্যাপারে।

এসবের ফল ভোগ করছে ফিলিস্তিন- আফগানিস্তান - সিরিয়া- ইরান- ইরাক- লিবিয়া- ইয়েমেন। সামনে আরো দেশ ভোগ করবে। 

আমরা কতটুকু দীর্ঘ  দাড়ি রাখা ঠিক তা নিয়ে গবেষণা করতে থাকি, আর তারা আমাদের দেশের দৈর্ঘ্য পরিবর্ত করে দিক।

রুবাইয়াত সাইমুম চৌধুরী: সহকারি অধ্যাপক, বাংলাদেশ ইউনির্ভাসিটি, ঢাকা।

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

মেয়েদের সবচেয়ে বেশি খুন-ধর্ষণ কারা করে?: তসলিমা নাসরিন

তসলিমা নাসরিন

মেয়েদের সবচেয়ে বেশি খুন-ধর্ষণ কারা করে?: তসলিমা নাসরিন

বাংলাদেশে ইসলামি জঙ্গির বিরুদ্ধে অপারেশনে সবচেয়ে সফল যে পুলিশ অফিসার, তাঁর নাম বাবুল আক্তার। তাঁর প্রতিভা, তীক্ষ্ণ বুদ্ধি,  বিচক্ষণতার  পুরস্কারও তিনি পেয়েছেন, পদোন্নতি এবং পদোন্নতি।  জানিনা   এই বাবুল আক্তারের বুদ্ধি কী করে মস্তিস্ক থেকে উড়ে গিয়েছিল যখন তিনি  ভাড়াটে খুনী দিয়ে তাঁর স্ত্রীকে খুন করানোর পরিকল্পনা করেছিলেন। বুদ্ধিরও পাখা থাকে। তাঁর স্ত্রী মিতু যখন ছেলেকে স্কুলে পৌঁছে দিতে বাস স্ট্যাণ্ডের দিকে  যাবে, তখনই, চৌরাস্তার মোড়ে তাঁকে খুন করা হবে। এই ছক মেনেই খুনীরা মিতুকে নৃশংসভাবে খুন করেছে। বাবুল আক্তার ভেবেছিলেন, তিনি পার পেয়ে যাবেন, কারণ মানুষ ভেবে নেবে, যেহেতু তিনি জঙ্গি মেরেছেন, তাই জঙ্গিরা তাঁর স্ত্রীকে মেরে তাঁর প্রতিশোধ নিয়েছে।

তাঁর দুই সন্তান। দুই সন্তানের এক সন্তান নিজের  মা'কে চোখের সামনে  খুন হতে দেখবে, তা জেনেও বাবুল আক্তার খুনটি করিয়েছিলেন। স্বামী হিসেবে তিনি অযোগ্য, পিতা হিসেবেও।

সংসারে দীর্ঘদিন অশান্তি। স্ত্রীকে তুমি ভালোবাসো না। স্ত্রীর চেহারা তোমার দেখতে ইচ্ছে করে না।   কখনও দুজনের মধ্যে সুসম্পর্ক ফিরে আসবে বলে তুমি বিশ্বাসও করো না।  এই অবস্থায় যে কাজটি করতে হয়, তা হলো স্ত্রীকে  তালাক দেওয়া, স্ত্রীকে মেরে ফেলা নয়।

বাবুল আক্তারের মতো মানুষ কেন এই সহজ সমাধানটি গ্রহণ করলেন না, বরং এমন এক সমাধান বেছে নিলেন, যে সমাধানে তাঁর ধরা পড়ার, এবং ফাঁসি বা যাবজ্জীবন হওয়ার ঝুঁকি ছিল। ওই যে বললাম না বুদ্ধিরও পাখা থাকে, মাঝে মাঝে উড়ে যায়।

কিছু সত্য তথ্য  সবারই  জানা উচিত। মেয়েদের সবচেয়ে বেশি ধর্ষণ কারা করে? স্বামী বা প্রেমিক। মেয়েদের সবচেয়ে বেশি শারীরিক এবং মানসিক  নির্যাতন কারা করে? স্বামী বা প্রেমিক। মেয়েদের সবচেয়ে বেশি খুন কারা করে? স্বামী বা প্রেমিক।

পরবর্তী খবর

কোনো সুযোগসন্ধানী গোষ্ঠী যেনো উত্তেজনা ছড়িয়ে দিতে না পারে

শওগাত আলী সাগর

কোনো সুযোগসন্ধানী গোষ্ঠী যেনো উত্তেজনা ছড়িয়ে দিতে না পারে

ইসরাইল- আর হামাসের মধ্যকার উত্তেজনাটা টরন্টোয় নিয়ে আসা মোটেও কাঙ্খিত নয়। ইসরাইল কিংবা প্যালেস্টাইন, উভয়পক্ষের সমর্থকদের মতামত প্রকাশের, প্রতিবাদ জানানোর, সমর্থন জানানোর অধিকার আছে। কিন্তু অন্যপক্ষের উপর বল প্রয়োগ কিংবা অন্যপক্ষ সম্পর্কে আপত্তিকর মন্তব্য করা মোটেও সমর্থনযোগ্য নয়। দুর্ভাগ্যজনক হলেও  টরন্টোয় এই ঘটনা ঘটেছে এবং ঘটছে।

শনিবার প্যালেস্টাইনিদের সমর্থনে মিছিল থেকে কয়েকজন ইসরাইল সমর্থকদের উপর চড়াও হয়েছে। পিঠে প্যালেস্টাইনি পতাকা সাঁটানো কয়েকজন মিলে এক বয়ো:বৃদ্ধ ইসরাইলি সমর্থককে পিটাচ্ছে এমন একটি ভিডিও পুলিশের হাতে এসেছে বলে পত্রিকায় খবর বেরিয়েছে। থর্ণক্লিফ এলাকায় বসবাস করেন এমন একজন ২২ বছরের তরুনকে পুলিশ অস্ত্রসহ গ্রেফতার করেছে।

আজ আবার আরেক এলাকায় প্যালেস্টাইন সমর্থকদের উদ্দেশ্যে ইসরাইল সমর্থকদের একটি সমাবেশ থেকে ‘টেররিষ্ট, গো ব্যাক টু ইওর কান্ট্রি’ বলে মন্তব্য করা হয়েছে বলে প্যালেষ্টাইন সমর্থক কয়েকজন টুইট করেছেন। দুটিই অত্যন্ত আপত্তিকর এবং দুটি ঘটনারই প্রতিবাদ জানাই। মন্ট্রিয়লে তো দুই গ্রুপের সংঘর্ষ থামাতে পুলিশকে টিয়ার গ্যাস ছুঁড়তে হয়েছে।


আরও পড়ুনঃ


গ্রহাণু ঠেকাতে অন্তত পাঁচ বছর সময় লাগবে: নাসা

ইসরাইলের বর্বর আক্রমণ কেবলই ক্ষমতার জন্য: বেলা হাদিদ

হামলায় ইসরাইলের একক আধিপত্যের যুগ শেষ: হামাস

ভারতের দিকে ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় ‘তাওকত’, রেড অ্যালার্ট


আমরা প্যালেস্টাইন- ইসরাইলের মধ্যকার উত্তেজনার দ্রুত অবসান চাই। টরন্টো বা অন্য কোনো শহরে কোনো সুযোগসন্ধানী গোষ্ঠী যেনো উত্তেজনা ছড়িয়ে দিতে না পারে সে ব্যাপারে সবাইকে সজাগ থাকার আহ্বান জানাই।

news24bd.tv / নকিব

পরবর্তী খবর