পুরুষশূন্য সালথার কয়েক গ্রাম

অনলাইন ডেস্ক

পুরুষশূন্য সালথার কয়েক গ্রাম

লকডাউন না মানাকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষের জেরে ৫ মামলায় পুলিশি অভিযানের কারণে ফরিদপুরের সালথা উপজেলার আশেপাশের কয়েকটি ইউনিয়নের গ্রাম পুরুষশূন্য হয়ে পড়েছে। শুক্রবার (০৯ এপ্রিল) ওই সব এলাকার বাড়ি-ঘরগুলোতে নারী আর শিশু ছাড়া কোনো সদস্য দেখা যায়নি। এ সময় বাড়ির নারী ও শিশুদের চোখে মুখে ভয়ের ছাপ দেখা গেছে। এলাকার পরিস্থিতি এখনও থমথমে। বাইরের মানুষ দেখলেই তারা ভয়ে দৌড়ে সরে যাচ্ছেন।

ফুকরা বাজার এলাকার করিমন বেগম জানান, সব সময় ভয়ে থাকি। আমাদের এখন পুলিশ দেখতে দেখতে সারাদিন কেটে যাচ্ছে। বাড়িতে কোন পুরুষ সদস্য নেই। সবাই পালিয়ে পালিয়ে রয়েছে।
  
নুরজাহান নামে একজন জানান, ওইদিন অন্য এলাকা থেকে লোকজন এসে হামলা করছে। আমাদের গ্রামের কোনো লোক  ওই তিনের হামলায় ছিল না। এখন তো কোনও পুরুষই এলাকায় নেই ভয়ে।

মনির নামে একজন জানান, বালিয়া গট্রি এলাকা ও উপজেলা কেন্দ্রীক এলাকার বাড়িগুলোতে কোনো পুরুষ সদস্য নেই। ঘটনার পর থেকে ওই সব এলাকার লোকজন পলাতক অবস্থায় রয়েছে। কখন কি হয় কেও বলতে পারে না। তাই সবাই ভয়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছে।

ফরিদপুরের পুলিশ সুপার মো. আলিমুজ্জামান বলেন, সালথায় উপজেলা পরিষদ, এসিল্যান্ড অফিস ভাঙচুর, লুটপাট ও অগ্নিসংযোগের ঘটনার  পর উপজেলার বিভিন্ন স্থানে মামলার আসামিদের ধরতে পুলিশ দিনরাত জোরদার অভিযান চালানো হচ্ছে। বেশির ভাগ এলাকায় পুলিশি অভিযানের কারনে পুরুষ শূন্য হয়ে পড়েছে এলাকাগুলো। তারপরও পুলিশ তাদের ধরতে সব ধরনের ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। 

তিনি আরও বলেন, এ ঘটনায় যে জড়িত থাকুক তাদের বিরুদ্ধে কঠোর আইনি ব্যবস্থা পুলিশ নেবে। 

গত ৫  এপ্রিল সালথার ঘটনায় এ পর্যন্ত মামলা হয়েছে পাঁচটি। এসব মামলায় আসামি করা হয়েছে ২৬১ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাতনামা আরও ৩-৪ হাজার জনকে। ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে শুক্রবার দুপুর পর্যন্ত ৪৮ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

নতুন যে চারটি মামলা হয়েছে তার একটি করেছেন বীর মুক্তিযোদ্ধা বাচ্চু মাতুব্বর। এ মামলায় ২৫ জনের নাম উল্লেখ করা হয়েছে এবং অজ্ঞাত আরও ৭০০ থেকে ৮০০ জনকে আসামি করা হয়েছে।

আরেকটি মামলা করেছেন সালথা উপ‌জেলা নির্বাহী কর্মকতা (ইউএনও) মোহাম্মাদ হা‌সিব সরকা‌রের গাড়িচালক মো. হাশমত আলী। এই মামলায় ৫৮ জনের নাম উল্লেখ এবং ৩ থেকে ৪ হাজার অজ্ঞাত ব্যক্তিকে আসামি করা হয়েছে।

অপর মামলাটি করেছেন উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) কার্যালয়ের নিরাপত্তারক্ষী সমীর বিশ্বাস। এ মামলায় ৪৮ জনের নাম উল্লেখ করা হয়েছে এবং ৩ থেকে ৪ হাজার ব্যক্তিকে অজ্ঞাত আসামি করা হয়েছে।

আরেকটি মামলাটি করেছেন উপজেলা সহকারী কমিশনারের (ভূমি) গাড়িচালক মো. সাগর সিকদার। এ মামলায় ৪২ জনের নাম উল্লেখ করে তিন থেকে চার হাজার ব্যক্তিকে অজ্ঞাত আসামি করা হয়েছে।

এর আগে বুধবার সালথা থানার এস আই (উপ পরিদর্শক) মিজানুর রহমান বাদী হয়ে ৮৮ জনের নাম উল্লেখ করে এবং প্রায় চার হাজার ব্যক্তিকে অজ্ঞাত আসামি দেখিয়ে থানায় হামলা ও সরকারি কাজে বাধা দেওয়ার অভিযোগে প্রথম মামলাটি করেন।

উল্লেখ্য, লকডাউন না মানাকে কেন্দ্র করে গত সোমবার বিকেলে সালথার ফুকরা বাজারে উত্তেজনা সৃষ্টি হয় এসিল্যান্ডের গাড়িতে থাকা সদস্যদের সঙ্গে স্থানীয়দের। এরপরই বিভিন্ন এলাকা থেকে হাজার হাজার মানুষ সালথা উপজেলা পরিষদ, এসিল্যান্ড অফিস ভাঙচুর, লুটপাট ও অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটায়।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

নিম্ন আয়ের মানুষের মাঝে বঙ্গবন্ধু পরিষদের ইফতার বিতরণ

পিরোজপুর প্রতিনিধি

নিম্ন আয়ের মানুষের মাঝে বঙ্গবন্ধু পরিষদের ইফতার বিতরণ

পিরোজপুরে নিম্ন ও মধ্য আয়ের ৪শত মানুষের মাঝে রুপালী ব্যাংকের সংগঠন বঙ্গবন্ধু পরিষদের উদ্যোগে ইফতার বিতরণ করা হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার বিকালে পিরোজপুর শহরের শিল্পকলা একাডেমির সামনে এ কর্মসূচির উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক আবু আলী মো: সাজ্জাদ হোসেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন পুলিশ সুপার হায়াতুল ইসলাম খান,রূপালী ব্যাংক লিমিটেডের পিরোজপুর জোনাল ম্যানেজার ফরহাদ হোসেন খান, হুলারহাট শাখার ম্যানেজার ও বঙ্গবন্ধু পরিষদের পিরোজপুর অঞ্চলিক কমিটির সভাপতি মোঃ মিজানুর রহমান সুমন, পুটিয়াখালি শাখার ম্যানেজার ও বঙ্গবন্ধু পরিষদের সাধারন সম্পাদক সৈয়দ আরিফ হোসেনসহ আরো অনেকে।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

ঢাকা দক্ষিণ সিটির সিইও হলেন ফরিদ আহাম্মদ

অনলাইন ডেস্ক

ঢাকা দক্ষিণ সিটির সিইও হলেন ফরিদ আহাম্মদ

সামরিক ভূমি ও ক্যান্টনমেন্ট অধিদফতরের মহাপরিচালক (অতিরিক্ত সচিব) ফরিদ আহাম্মদকে ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে।

সরকারি এক আদেশে সদ্য সাবেক ভূমি ও ক্যান্টনমেন্ট অধিদফতরের কর্মকর্তাকে ঢাকা দক্ষিণ সিটির সিইও হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়।

ফরিদ আহাম্মদ বিসিএস ১১তম ব্যাচের সদস্য (প্রশাসন) ক্যাডার এবং ১৯৯৩ সালে বিসিএস (প্রশাসন) ক্যাডারে কর্মজীবন শুরু করেন। তিনি মে, ২০১২ হতে জুন, ২০১৫ সাল পর্যন্ত ৩ বৎসর এর অধিক সময় পর্যন্ত রংপুর জেলার জেলা প্রশাসক ও জেলা ম্যাজিস্ট্রেট হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

২০১৮ সালে যুগ্মসচিব হিসেবে সামরিক ভূমি ও ক্যান্টনমেন্ট অধিদপ্তরের মহাপরিচালক এর দায়িত্বভার গ্রহণ করেন। ২৬ আক্টোবর ২০২০ তিনি সরকারের অতিরিক্ত সচিব হিসেবে পদোন্নতি প্রাপ্ত হয়ে পুনরায় মহাপরিচালক এর দায়িত্বভার গ্রহণ করেন। তিনি ২৭ বছর এর অধিক সময় গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের সচিবালয় এবং মাঠ প্রশাসনের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ পদে যুগ্মসচিব, উপসচিব, জেলা প্রশাসক, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক, উপজেলা নির্বাহী অফিসার, জেলা দুর্নীতি দমন অফিসার, ক্যান্টনমেন্ট এক্সিকিউটিভ অফিসার, রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যানের একান্ত সচিব, সহকারী কমিশনার (ভূমি) এবং সহকারী কমিশনার ও ১ম শ্রেণীর ম্যাজিস্ট্রেট হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

তিনি নরসিংদী জেলার সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্ম গ্রহণ করেন। দুই পুত্র সন্তানের জনক। তাঁর সহধর্মিনী একজন বিএসসি সিভিল ইঞ্জিনিয়ার।

বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় হতে কৃষিতে ১ম শ্রেণীর স্নাতক সম্মান ও স্নাতকোত্তর কৃষি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, গাজীপুর হতে এনটমলজিতে ১ম শ্রেণীতে এম, এস ডিগ্রী লাভ করেন। পরবর্তীতে ইউরোপিয়ান ইউনিভার্সিটি থেকে ১ম শ্রেণীতে এম.বি.এ(ফাইনান্স) ডিগ্রি লাভ করেন।

তিনি যুক্তরাষ্ট্রের ডিউক বিশ্ববিদ্যালয়ে লিডারশিপ কোর্স, যুক্তরাজ্যের ওলভার হাম্পটন বিশ্ববিদ্যালয়ে সুপারম্যাট, অস্ট্রেলিয়ার ম্যাককুয়ারি বিশ্ববিদ্যালয়ে এসডিজি বিষয়ক প্রশিক্ষণসহ সিংগাপুর সিভিল সার্ভিস একাডেমি, ভিয়েতনামের ন্যাশনাল একাডেমি ফর পাবলিক এডমিনিসট্রেশন, ভারতের এনআইআইটিতে প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেন।

আন্তর্জাতিক সম্মেলন, সেমিনার, প্রশিক্ষণ ও কর্মশালায় অংশগ্রহণসহ তিনি সরকারি দায়িত্বপালনের অংশ হিসেবে বিভিন্ন সময় ৩২টি দেশ ভ্রমন করেন।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

এবারও বহিরাগতদের জন্য হজ বন্ধের পরিকল্পনা সৌদির

অনলাইন ডেস্ক

এবারও বহিরাগতদের জন্য হজ বন্ধের পরিকল্পনা সৌদির

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে গত বছর বিদেশি নাগরিকদের জন্য হজ বন্ধ করেছিলো সৌদি সরকার। তবে বিশ্বজুড়ে করোনার ঊর্ধ্বগতি এবং করোনার নতুন রূপ ছড়ানোয় টানা দ্বিতীয় বছরের মতো বহিরাগত বা বিদেশিদের জন্য হজে যাওয়া বন্ধের বিষয়ে চিন্তা-ভাবনা করছে সৌদি আরব।

সংবাদ সংস্থা রয়টার্সের এক প্রতিবেদন থেকে জানা যায়, বহিরাগতদের হজের জন্য প্রবেশে সম্ভাব্য নিষেধাজ্ঞার বিষয়ে আলোচনা হয়েছে। এই বিষয়ে চূড়ান্ত কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। তবে এই সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত হলে পবিত্র মক্কা নগরীতে হজ করতে আগ্রহী মুসল্লিদের উপস্থিতি সীমিত সংখ্যক হবে।

এছাড়াও এ সিদ্ধান্ত বাস্তবায়িত হলে দেশটির যে সকল নাগরিক করোনার টিকা নিয়েছেন বা অন্তত ছয় মাস আগে করোনা থেকে সুস্থ হয়েছে তারাই কেবল হজ করার জন্য সুযোগ পাবেন।

সুত্র জানায়, প্রাথমিকভাবে টিকা নেয়া কিছু বহিরাগতদের এবার হজ পালনের জন্য সুযোগ দেয়ার বিষয়ে ভাবা হচ্ছিল। কিন্তু তাদের মধ্যে কে কোন টিকা নিয়েছেন, এ নিয়ে বিভ্রান্তি এবং টিকার কার্যকারিতা ও করোনার নতুন ধরণ নিয়ে উদ্বেগ রয়েছে। ফলে ওই পরিকল্পনা থেকেও সরে আসা হয়েছে।


আরও পড়ুনঃ


ট্রিও মান্ডিলি: এক আধুনিক রূপকথার গল্প

রোজার সৌন্দর্যে ​মুগ্ধ হয়ে ভারতীয় তরুণীর ইসলাম গ্রহণ

আইপিএল নেই, বাড়ি ফিরে যা করতে চান কোহলি

এক সপ্তাহে বিশ্বে করোনা আক্রান্তের অর্ধেকই ভারতে, মৃত্যু এক-চতুর্থাংশ


উল্লেখ্য, সৌদি সরকার গত ফেব্রুয়ারি মাসে ২০ দেশের নাগরিকদের দেশটিতে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে। তবে এই নিষেধাজ্ঞা কূটনীতিক, সৌদি নাগরিক, চিকিৎসক ও তাদের পরিবারগুলোর ক্ষেত্রে প্রযোজ্য ছিল না। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত এই নিষেধাজ্ঞা এখনো বহাল রয়েছে।

news24bd.tv / নকিব

পরবর্তী খবর

বিএনপির সাবেক এমপি দিলদার হোসেন সেলিম আর নেই

অনলাইন ডেস্ক

বিএনপির সাবেক এমপি দিলদার হোসেন সেলিম আর নেই

বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপির কেন্দ্রীয় সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক ও সিলেট-৪ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য দিলদার হোসেন সেলিম ইন্তেকাল করেছেন।  বুধবার (০৫ মে) রাত পৌনে ১০টার দিকে সিলেট নগরের মাউন্ড এডোরা হাসপাতালে তিনি শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন। 

সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। 

দলীয় সূত্র জানায়, ৭২ বছর বয়স্ক দিলদার হোসেন সেলিম দীর্ঘদিন ধরে প্যারালাইসিসসহ নানা রোগে আক্রান্ত ছিলেন। সম্প্রতি চিকিৎসা শেষে যুক্তরাষ্ট্র থেকে তিনি দেশে ফেরেন।

দিলদার হোসেন সেলিমের জন্ম সিলেট জেলার গোয়াইনঘাট উপজেলার রাধানগর গ্রামে। সিলেট-৪ (গোয়াইনঘাট-কোম্পানীগঞ্জ) আসন থেকে বিএনপির মনোনীত প্রার্থী হিসেবে ২০০১ সালে তিনি সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছিলেন। এরপর ২০০৮ ও ২০১৮ সালের নির্বাচনে পরাজিত হন।

 দিলদার হোসেন সেলিমের মৃত্যুতে শোক জানিয়েছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

news24bd.tv/আলী 

পরবর্তী খবর

ঈদে বন্ধ বাড়তি ছুটি

অনলাইন ডেস্ক

ঈদে বন্ধ বাড়তি ছুটি

এবারের ঈদ উল ফিতরে সরকারি ছুটি তিন দিন। এই তিন দিনের সঙ্গে কোনো প্রতিষ্ঠান নিজস্ব উদ্যোগে অতিরিক্ত ছুটি দিতে পারবে না। সিদ্ধান্তটি সরকারি ও বেসরকারি সব প্রতিষ্ঠানের ক্ষেত্রেই প্রযোজ্য হবে।

সোমবার (৩ মে) সকালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত মন্ত্রিপরিষদ বৈঠকে আলোচনার পর এ সিদ্ধান্ত হয় বলে জানান মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম।

সরকারের নীতিনির্ধারণী পর্যায়ের এই বৈঠক সকাল সাড়ে ১০টায় ভার্চ্যুয়াল মাধ্যমে শুরু হয়। এতে গণভবন থেকে অনলাইনে যুক্ত হয়ে সভাপতিত্ব করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সচিবালয় থেকে অংশ নেন মন্ত্রিসভার সদস্যরা।

বৈঠকে বেশ কয়েকটি আইনের খসড়া ও নীতিগত অনুমোদন দেয়া হয়।

বেসরকারি খাতের কোনো প্রতিষ্ঠান, শিল্পকারখানা এই তিনের বাইরে বন্ধ দিতে পারবে না। ফলে, বৃহস্পতি, শুক্র ও শনি—এ তিন দিনের বাইরে কোনো বন্ধ থাকবে না।

সরকারের এ সিদ্ধান্তের ফলে তিন দিন বন্ধ থাকবে পোশাকশিল্প খাত। তৈরি পোশাকশিল্পের মালিকদের সংগঠন বিজিএমইএ সহসভাপতি শহিদুল্লাহ আজিম  বলেন, সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে রাখতে সরকার এই উদ্যোগ নিয়েছে। এতে আমাদের কোনো সমস্যা নেই। আগে স্বাস্থ্য, পরে কাজ।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব জানান, সংক্রমণ রোধে চলমান বিধি-নিষেধ বহাল রাখতে হবে অন্তত ১৬ মে পর্যন্ত। এ সময় দেশে বিপণিবিতান খোলা থাকলেও স্বাস্থ্যবিধি লঙ্ঘন করলে সেসব তাৎক্ষণিকভাবে বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর