যাদু দেখাতে পারেননি মেসি, শেষ হাসি হাসলো রিয়াল

অনলাইন ডেস্ক

যাদু দেখাতে পারেননি মেসি, শেষ হাসি হাসলো রিয়াল

বার্সাকে হারিয়ে শেষ হাসি হাসলো রিয়াল মাদ্রিদ। রোমাঞ্চকর লড়াইয়ে জয় ছিনিয়ে নিলো রিয়াল। শনিবার রাতে মৌসুমের দ্বিতীয় ক্লাসিকোয় আলফ্রেদো দি স্তেফানো স্টেডিয়ামে ২-১ গোলে জিতেছে রিয়াল। সেই সঙ্গে ৪৩ বছর পর কাতালানদের বিপক্ষে টানা তিন জয়ের দেখা পেল লস ব্লাঙ্কস। দুর্দান্ত এ জয়ে ৬৬ পয়েন্ট নিয়ে বার্সা ও অ্যাতলেটিকো মাদ্রিদকে টপকে টেবিলের শীর্ষে উঠে এলো বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা।

নিজের শেষ এল ক্লাসিকোতে ফুটবলের ক্ষুদে যাদুকরের পারফরম্যান্স ছিল একেবারেই বিবর্ণ। জমজমাট দ্বৈরথে শেষ হাসি হাসলো রিয়াল মাদ্রিদ। দারুণ এ জয়ে ১৯৭৮ সালের পর বার্সেলোনার বিপক্ষে টানা তিন জয়ের স্বাদ পেলো লস ব্লাঙ্কসরা।

আলফ্রেদো দি স্তেফানো চেনা মাঠ। আর সেই চেনা পরিবেশে বরাবরই অপ্রতিরোধ্য রিয়াল মাদ্রিদ। মৌসুমের দ্বিতীয় এল ক্লাসিকোর শুরুতেই আধিপত্য বিস্তার বর্তমান চ্যাম্পিয়নদের। যেখানে ভালভার্দে-ভিনিসিয়াস-করিম বেনজেমারা, বার্সার রক্ষণদূর্গে কাঁপন ধরিয়ে দেয়। ম্যাচের ১৪ মিনিটে লুকাসের অ্যাসিস্টে দুর্দান্ত সাইড ফ্লিকে বল জালে জড়ান ফরাসি ফরোয়ার্ড করিম বেনজেমা। 

লিড নিয়ে আরও আক্রমণাত্মক হয়ে ওঠে জিদান বাহিনী। ২৭ মিনিটে টনি ক্রুসের ফ্রি কিক প্রতিপক্ষের ডিফেন্ডার সের্জিনোর পিঠে লেগে জালের ঠিকানা খুঁজে নেয়। স্কোর লাইন দাঁড়ায় ২-০।

আরও পড়ুন


বরেণ্য রবীন্দ্রসঙ্গীত শিল্পী মিতা হক আর নেই

ভূমিকম্পে ইন্দোনেশিয়ায় শতাধিক ভবন ধস, নিহত ৮

ইউক্রেন সীমান্তে ‘ইস্কান্দার’ ক্ষেপণাস্ত্র মোতায়েন করেছে রাশিয়া

কি এমন দোয়া যা বিপদে পড়লেও করতে নিষেধ করেছেন প্রিয় নবী


বিরতির আগে মেসির কর্নার থেকে বল পোষ্টে লেগে ফিরে আসলে আর ব্যবধান কমানো হয়নি বার্সেলোনার। যদিও প্রথমার্ধের ৬৯ শতাংশ বল পায়ে রেখেও প্রতিপক্ষকে চাপে ফেলতে পারেনি কাতালানরা। যেখানে বার্সার ৬ শর্টের একটি ছিল লক্ষ্যে।

যদিও বিরতির পর মাদ্রিদে শুরু হয় মুষলধারে বৃষ্টি। সেই সাথে ঝড়ো বাতাস। প্রতিকূল পরিবেশে ঘুরে দাঁড়াতে প্রাণপণ চেষ্টা কোম্যান শিষ্যদের। অবশেষে ৬০ মিনিটে গোলের দেখা পায় বার্সা। ব্যবধান কমান প্রথমবারের মতো ক্লাসিকো খেলতে নামা তরুণ ডিফেন্ডার মিনগেসা।

তবে নির্ধারিত সময়ের শেষ মিনিটে মিনগেসাকে ফাউল করে দ্বিতীয় হলুদ কার্ড দেখেন ক্যাসেমিরো। দশ জনের দলে পরিণত হয় রিয়াল মাদ্রিদ। এরপর যোগ করা সময়ে ইলাইশের শট ক্রসবারে বাঁধা পেলে আর সমতায় ফেরা হয়নি বার্সোলোনার। রেফারির শেষ বাঁশি বাজতেই এল ক্লাসিকো জয়ের আনন্দে মেতে ওঠে রিয়াল শিবির।

news24bd.tv আহমেদ

পরবর্তী খবর

৯ বছর পর ফাইনালে চেলসি, রিয়াল মাদ্রিদের বিদায়

অনলাইন ডেস্ক

৯ বছর পর ফাইনালে চেলসি, রিয়াল মাদ্রিদের বিদায়

উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগে ১৩ বারের চ্যাম্পিয়ন রিয়াল মাদ্রিদকে হারিয়ে ৯ বছর পর ফাইনালে উঠেছে চেলসি। বুধবার দিবাগত রাতে সেমিফাইনাল দ্বিতীয় লেগে ঘরের মাঠে রিয়াল মাদ্রিদকে হারিয়েছে ২-০ গোলে (দুই লেগ মিলিয়ে ৩-১)। এর মধ্য দিয়ে অল ইংলিশ ফাইনাল নিশ্চিত হলো। আগামি ২৯ মে তুরস্কের রাজধানী ইস্তাম্বুলে ফাইনালে মুখোমুখি হবে ম্যানচেস্টার সিটি ও চেলসি।

এর আগে সবশেষ ২০১২ সালে চ্যাম্পিয়নস লিগের শিরোপা জিতেছিল চেলসি। এরপর গেল ৯ বছরে আর ফাইনালে ওঠা হয়নি তাদের। অবশেষে থমাস টাসেলের হাত ধরে প্রার্থিত ফাইনাল নিশ্চিত করলো তারা।

অবশ্য রিয়াল মাদ্রিদের জন্য চেলসির পাশাপাশি বড় বাঁধা ছিল তাদের কোচ টাসেল। জার্মান এই কোচের বিপক্ষে জিনেদিন জিদান কখনোই জিততে পারেননি। ২০১৬ সাল থেকে পাঁচবারের দেখায় হয়েছিলেন পরাজিত। ষষ্ঠবারেও পারেননি সেই পরিসংখ্যান বদলাতে।

ঘরের মাঠ স্টামফোর্ড ব্রিজে রাতে চেলসি প্রথমার্ধে একটি ও দ্বিতীয়ার্ধে একটি গোল করে। রিয়াল বেশ কিছু সুযোগ তৈরি করেও সেগুলো থেকে গোল আদায় করে নিতে পারেনি।

ঘরের মাঠে ম্যাচের ১৮ মিনিটেই বেন কাহিলের ক্রস থেকে জালে বল জড়িয়েছিল চেলসির টিমো ওয়ার্নার। কিন্তু অফসাইডের কারণে সেটি বাতিল হয়। এরপর করিম বেনজেমা গোল করে ফেলেছিলেন প্রায়। কিন্তু তার নেওয়া শট চেলসির গোলরক্ষক ইডুয়ার্ডো মেন্ডি বামদিকে ঝাপিয়ে পড়ে কর্নারের বিনিময়ে রক্ষা করেন।

আরও পড়ুন


নাজাতের ১০ দিন ও বরকতময় শবে কদর

লাইলাতুল কদরে যে বিশেষ দোয়াগুলো পড়লে মুক্তি মিলবে

যেসব অঞ্চলে ৮০ কিমি বেগে ঝড় হতে পারে

খালেদার বিদেশে চিকিৎসার আবেদন প্রসঙ্গে যা বললেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী


২৮ মিনিটের মাথায় লিড নেয় চেলসি। এ সময় ব্লুজদের কাই হাভেটজ রিয়ালের গোলরক্ষক থিবাউট কোর্তোয়ার মাথার ওপর দিয়ে বল পাস করেন। কিন্তু সেটি বারে লেগে ফিরে আসে। ফিরে আসা বলে হেড দিয়ে ফাঁকা পোস্টে জড়ান ওয়ার্নার। তার গোলে এগিয়ে থেকেই বিরতিতে যায় ইংলিশ ক্লাবটি।

বিরতির পর চেলসি আরও উজ্জীবিত পারফরম্যান্স করে। সে তুলনায় রিয়াল ছিল কিছুটা নির্জীব। সুযোগ তৈরি করে চলে চেলসি। ৮৫ মিনিটের মাথায় ব্যবধান দ্বিগুণ হয়। এ সময় ডানদিক থেকে পুলিসিক বক্সের মধ্যে বল বাড়িয়ে দেন ম্যাসন মাউন্টকে। তিনি কাছ থেকে ডান পায়ের শট বল জালে পাঠান। তাতে ২-০ ব্যবধানের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে চেলসি। ৯ বছর পর নিশ্চিত করে ফাইনাল।

news24bd.tv আহমেদ

পরবর্তী খবর

ইতিহাস গড়ে চ্যাম্পিয়নস লিগের ফাইনালে ম্যানসিটি

অনলাইন ডেস্ক

ইতিহাস গড়ে চ্যাম্পিয়নস লিগের ফাইনালে ম্যানসিটি

প্যারিস সেন্ট জার্মেই (পিএসজি)-কে  ২-০ গোলে হারিয়ে প্রথমবারের মতো চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে উঠে গেল ম্যানচেস্টার সিটি। এ জয়ে প্রথমবারের মতো চ্যাম্পিয়নস লিগ ফাইনাল খেলার টিকিট কাটলো ম্যানচেস্টার। ৫১ বছর পর কোনও ইউরোপিয়ান ফাইনালে তারা।

মঙ্গলবার রাতে ইতিহাদ স্টেডিয়ামে ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হয়। ম্যাচে দুটো গোলই করেন দলীয় তারকা ফুটবলার রিয়াদ মাহারেজ।

ম্যাচের শুরুটা ভালোই হয়েছিল গত আসরের রানার্সআপ পিএসজির। প্রথম মিনিট থেকে চাপ তৈরি করে তারা। তাদের আশার পালে দোলা দেয় ষষ্ঠ মিনিটের পেনাল্টির বাঁশি। তবে টিভি রিপ্লেতে দেখা যায় অলেকসান্দার জিনচেঙ্কোর কাঁধে বল লেগেছিল, ভিএআরে পাল্টায় সিদ্ধান্ত।

পাঁচ মিনিট পরেই গোল খেয়ে বসে পিএসজি। দারুণ এক প্রতি-আক্রমণে কেভিন ডে ব্রুইনের শট মার্কিনিয়োসের পায়ে লেগে বল চলে যায় ডান দিক। ছুটে গিয়ে জোরালো কোনাকুনি শটে কেইলর নাভাসকে পরাস্ত করেন মাহরেজ। প্রথম লেগে দলের দ্বিতীয় গোলটি করেছিলেন আলজেরিয়ার এই মিডফিল্ডার।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতেও নাভাস দুবার বাঁচিয়ে দেন দলকে। কিন্তু ৬৩ মিনিটে প্রতিআক্রমণে ওঠা সিটির দুর্দান্ত আক্রমণভাগকে আর ঠেকানো সম্ভব হয়নি। বাঁ প্রান্ত দিয়ে ফিল ফোডেন বল টেনে নিয়ে বক্সের সামনে ডি ব্রুইনাকে দেন। ব্রুইনার পাস আবার খুঁজে নেয় বক্সে ঢুকে পড়া ফোডেনকে। আগেই গা ছেড়ে দেওয়া পিএসজি রক্ষণের কারণে দূরের পোস্টে ফাঁকায় বল পেয়েছেন মাহরেজ। তাঁর শট ঝাঁপিয়েও আটকাতে পারেননি নাভাস।


সাক্ষাতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে যে ৪টি আবেদন জানালো হেফাজত নেতারা

ইতিকাফের ফজিলত

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে চাকরির সুযোগ

৫ মে, ইতিহাসের এই দিনে


মেজাজ হারিয়ে দি মারিয়া ৬৯তম মিনিটে লাল কার্ড দেখলে পিএসজির ঘুরে দাঁড়ানোর আশা বলতে গেলে শেষ হয়ে যায়। সাইডলাইনে বাইরে অহেতুক সিটির অধিনায়ক ফের্নানদিনিয়োকের পায়ে পাড়া দিয়ে বহিষ্কার হন আর্জেন্টাইন মিডফিল্ডার।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

ম্যাচের আগে মেসির বাসায় সতীর্থদের পার্টি

অনলাইন ডেস্ক

ম্যাচের আগে মেসির বাসায় সতীর্থদের পার্টি

উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগ থেকে বাদ পড়েছেন আগেই। তবে জিতেছেন কোপা ডেল রে’র শিরোপা। সামনে হাতছানি দিচ্ছে লা লিগা চ্যাম্পিয়নশিপ। এমন অবস্থায় সতীর্থ খেলোয়াড়দের উজ্জীবিত করতে এক ঘরোয়া পার্টির আয়োজন করলেন বার্সেলোনা অধিনায়ক লিওনেল মেসি।

আগামী শনিবার অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদের বিপক্ষে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচ রয়েছে বার্সেলোনার। এ ম্যাচের ওপরেই অনেকাংশে নির্ভর করছে লা লিগার ভাগ্য। এরপরের তিন ম্যাচও খুব গুরুত্বপূর্ণ।

সোমবার বার্সেলোনার সকল খেলোয়াড়কে নিজের বাসায় দাওয়াত দিয়ে আপ্যায়ন করেছেন ক্লাবটির সবচেয়ে বড় তারকা। দলের মধ্যে এখন প্রয়োজন নিজেদের মধ্যে বোঝাপড়া। সেই উদ্দেশ্যেই পরই দলের সব খেলোয়াড়দের নিজ বাসায় ডেকে নিলেন মেসি। যেখানে সবাই নিজেদের স্ত্রী-বান্ধবীকে সঙ্গে নিয়েই উপস্থিত হয়েছেন।


আরও পড়ুনঃ


ট্রিও মান্ডিলি: এক আধুনিক রূপকথার গল্প

সিংহের প্রজনন বন্ধ করছে দক্ষিণ আফ্রিকা

সভায় সংলাপ দিয়ে শুধু হাততালিই পেলেন মিঠুন?

উত্তর কোরিয়ায় সস্তায় চিকিৎসা সরঞ্জাম ক্রয়: কর্মকর্তার মৃত্যুদণ্ডসহ তিন প্রজন্মের শাস্তি


যেকোনো জয়ের পর সাধারণত রেস্টুরেন্টে একত্রিত হন সবাই। তবে এবার নিজ বাড়িতেই বার্বিকিউ পার্টির আয়োজন করেছেন। স্প্যানিশ সংবাদমাধ্যমগুলো জানাচ্ছে, সেই পার্টিতে ‘চ্যাম্পিয়ন! চ্যাম্পিয়ন!’ স্লোগানও দিয়েছেন বার্সেলোনার খেলোয়াড়েরা।

news24bd.tv / নকিব

পরবর্তী খবর

উড়ন্ত রোনালদো বাঁচালেন ডুবন্ত জুভেন্টাসকে

অনলাইন ডেস্ক

উড়ন্ত রোনালদো বাঁচালেন ডুবন্ত জুভেন্টাসকে

টানা নয় মৌসুম পর লীগ শিরোপা হারাচ্ছে জুভেন্টাস। শুধু তাই নয়, শেষ চারে থেকে আগামী মৌসুমে চ্যাম্পিয়নস লিগে না খেলতে পারার সম্ভাবনাও রয়েছে।

এমন পরিস্থিতিতে লিগ ম্যাচে উদিনেসের কাছে হারতে বসেছিল আন্দ্রেয়া পিরলোর শিষ্যরা। যদিও শেষ পর্যন্ত ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো হলেন ত্রাতা। পিছিয়ে থেকেও দুই গোল করে ম্যাচ জেতালেন দলকে।

রবিবার রাতে ২-১ এ জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে তুরিনের দলটি। ঘরের মাঠ স্টাডিও ফ্রিউলিতে ম্যাচের দশম মিনিটেই গোল পায় উদিনেস। আর্জেন্টাইন রাইটব্যাক নাহুয়েল মলিনা এগিয়ে দেন স্বাগতিকদের।

৮১ মিনিটে রোনালদো ফ্রি-কিক নিলে ডি বক্সে তা স্বাগতিক মিডফিল্ডার রদ্রিগো পলের হাতে লাগে। এতে পেনাল্টি পায় জুভেন্টাস। গোল তুলে দলকে সমতায় ফেরান পর্তুগীজ মহাতারকা।


আরও পড়ুনঃ


সিংহের প্রজনন বন্ধ করছে দক্ষিণ আফ্রিকা

শপিংয়ে না যাওয়ার ঘোষণা দিয়ে পরদিন কিনলেন নতুন গাড়ি

সভায় সংলাপ দিয়ে শুধু হাততালিই পেলেন মিঠুন?

উত্তর কোরিয়ায় সস্তায় চিকিৎসা সরঞ্জাম ক্রয়: কর্মকর্তার মৃত্যুদণ্ডসহ তিন প্রজন্মের শাস্তি


৮৯ মিনিটে আদ্রিয়েন রাবিওতের বাড়ানো বলে দুর্দান্ত হেডে দলকে জয় এনে দেন ক্রিশ্চিয়ানো।

এই জয়ে সিরি’আ তে ৩৪ ম্যাচ শেষে আতালান্তা, জুভেন্টাস ও এসি মিলানের পয়েন্ট ৬৯। যথাক্রমে ২, ৩ ও ৪ নম্বরে রয়েছে তারা। সমান ম্যাচে ৮২ পয়েন্ট নিয়ে এরই মধ্যে লিগের চ্যাম্পিয়ন হয়েছে ইন্টার মিলান।

news24bd.tv / নকিব

পরবর্তী খবর

৯ বছর পর লীগে জুভেন্টাস রাজত্বের অবসান

অনলাইন ডেস্ক

৯ বছর পর লীগে জুভেন্টাস রাজত্বের অবসান

দীর্ঘ ১১ মৌসুম পর ইতালিয়ান সিরি আ'র শিরোপা জেতার খুব কাছাকাছি ইন্টার মিলান। লীগ শিরোপা জিততে আর মাত্র এক পয়েন্ট প্রয়োজন তাদের। শনিবার রাতে ক্রোতোনকে ২-০ গোলে হারিয়ে নিজেদের শিরোপা থেকে হাত বাড়ানো দূরত্বে অ্যান্তনিও কন্তের দল।

যার ফলে শেষ হয়ে গেছে সিরি আ'র টানা নয়বারের চ্যাম্পিয়ন জুভেন্টাসের সকল গাণিতিক সম্ভাবনাও।

প্রতিপক্ষের মাঠে খেলা ম্যাচটিতে একের পর এক আক্রমণ করেছে ইন্টার। কিন্তু প্রত্যাশামাফিক গোল তারা পায়নি। প্রথমার্ধ গোলশূন্য কাটার পর দ্বিতীয়ার্ধে ৬৯ মিনিটের সময় প্রথম গোলটি করেন ক্রিশ্চিয়ান এরিকসেন। ম্যাচের শেষ মুহূর্তে আশরাফ হাকিমির গোলে ২-০ গোলের সহজ জয় পায় ইন্টার।

লিগের ৩৪ ম্যাচ শেষে ২৫ জয় ও ৭ ড্রয়ে ৮২ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে অবস্থান করছে ইন্টার। দুই নম্বরে থাকা এসি মিলানের সংগ্রহ ৩৪ ম্যাচে ৬৯ পয়েন্ট। ফলে তারা শেষ চার ম্যাচ জিতলেও ইন্টারের ৮২ পয়েন্ট টপকাতে পারবে না।


আরও পড়ুনঃ


ফেলে রাখা ট্রাকে মিললো ২ লাখ ৪০ হাজার টিকা

শপিংয়ে না যাওয়ার ঘোষণা দিয়ে পরদিন কিনলেন নতুন গাড়ি

ভারত থেকে অস্ট্রেলিয়া প্রবেশ সাময়িকভাবে অবৈধ, জেল-জরিমানার বিধান

উত্তর কোরিয়ায় সস্তায় চিকিৎসা সরঞ্জাম ক্রয়: কর্মকর্তার মৃত্যুদণ্ডসহ তিন প্রজন্মের শাস্তি


কিন্তু গাণিতিকভাবে আশা রয়েছে তিন নম্বরে থাকা আটলান্টার। তাদের ঝুলিতে রয়েছে ৩৩ ম্যাচে ৬৮ পয়েন্ট। শেষ পাঁচ ম্যাচ জিতলে আটলান্টার পয়েন্টে বেড়ে হবে ৮৩। সেক্ষেত্রে ইন্টার নিজেদের বাকি সব ম্যাচ হারলে সুযোগ থাকবে আটলান্টার।

এদিকে ইন্টারের সবশেষ জয়ে সকল আশা শেষ হয়ে গেছে সিরি আ'র টানা নয়বারের চ্যাম্পিয়ন জুভেন্টাসের। ৩৩ ম্যাচে ৬৬ পয়েন্ট নিয়ে তারা রয়েছে পয়েন্ট টেবিলের পাঁচ নম্বরে। শেষের পাঁচ ম্যাচ জিতলেও ইন্টারকে টপকাতে পারবে না তুরিনের ওল্ড লেডিরা।

news24bd.tv / নকিব

পরবর্তী খবর