চুল ধরে ‘ফেলে তরুণীর জামা ছিঁড়ে ধর্ষণের চেষ্টা চালাল’ ‘বখাটেরা’
চুল ধরে ‘ফেলে তরুণীর জামা ছিঁড়ে ধর্ষণের চেষ্টা চালাল’ ‘বখাটেরা’

চুল ধরে ‘ফেলে তরুণীর জামা ছিঁড়ে ধর্ষণের চেষ্টা চালাল’ ‘বখাটেরা’

অনলাইন ডেস্ক

উত্ত্যক্তের প্রতিবাদ করায় দুই সন্তানের জননী ও ইন্সুরেন্স কর্মী এক নারীকে ধর্ষণের চেষ্টা করে শরীরের বিভিন্ন স্থানে কামড় দিয়ে আহত করা হয়েছে বলে ৪ যুবকের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে।

শনিবার সকাল সাড়ে ৬টার দিকে গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়া উপজেলার সীমান্তবর্তী বাগেরহাট জেলার চিতলমারী উপজেলার চরকুনিয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে বলে জানা গেছে।

আহত ওই তরুণীকে গোপালগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

নির্যাতনের শিকার তরুণী বলেন, স্বামী ২য় বিয়ে করার পর দুই সন্তানকে নিয়ে চরকুনিয়া গ্রামে বাবার বাড়িতে থাকি।

ওই গ্রামের মুনসুর শেখের ছেলে আমিনুর শেখ (২৮) দীর্ঘদিন ধরে আমকে কুপ্রস্তাব দিয়ে আসছিল। আমি তাকে বারবার প্রত্যাখান করায় সে ক্ষিপ্ত হয়।


খালেদা জিয়াসহ ফিরোজা বাসভবনের সবাই করোনায় আক্রান্ত, চলছে চিকিৎসা

ভ্যাকসিন নিয়ে পাইলট-কেবিন ক্রুরা ৪৮ ঘণ্টা ফ্লাইটে যেতে পারবেন না

মাদরাসা ও মসজিদ লকডাউনের আওতামুক্ত রাখার দাবি


শনিবার সকালে বাড়ির পাশের একটি দোকানে শ্যাম্পু কিনতে যাই। সেখানে আমিনুর ও তার সহযোগী চরকুনিয়া গ্রামের মুনসুর গাজীর ছেলে হাফিজ গাজী (২৯), আবুল হাওলাদারের ছেলে সবুজ হাওলাদার (২৫) ও কুনিয়া গ্রামের নোয়াব আলী শেখের ছেলে শিহাব শেখ (৩২) অশ্লীল ভাষায় আমাকে উত্ত্যক্ত করে।

প্রতিবাদ করলে আমিনুর আমার চুল ধরে দোকানের ভেতর ফেলে দেয়। এসময় তারা ধর্ষণের চেষ্টা করে ও শরীরের বিভিন্ন স্থানে কামড় দিয়ে আহত করে। এক পর্যায়ে আমি সেখান থেকে বাইরে বেড়িয়ে আসি। পরে সবার সামনেই ৪ বখাটে আমাকে মারপিট করে।

ঘটনার ব্যাপারে প্রতক্ষ্যদর্শীরা জানান, ওই তরুণী জামা ছেড়া অবস্থায় চিৎকার করতে করতে দৌড়ে এসে জানায় তাকে ধর্ষণের চেষ্টা করা হয়েছে। এরপর ওই তরুণীকে প্রকাশ্যে সবার সামনেই মারপিট করে আমিনুর ও তার ৩ সহযোগী।

ঘটনার ব্যাপারে বক্তব্য জানতে কল করা হলে আমিনুর শেখের মুঠোফোন বন্ধ পাওয়া গেলেও আরেক অভিযুক্ত শিহাব শেখের সঙ্গে কথা হয়।

তিনি বলেন, ঘটনার আমি কিছুই জানি না। প্রতিপক্ষরা আমাকে ফাঁসাতে মিথ্যা ঘটনা রটাচ্ছে।

এ ব্যাপারে কথা হলে বাগেরহাটের চিতলমারী থানার ওসি মীর শরিফুল হক বলেন, ধর্ষণ চেষ্টায় ব্যর্থ হয়ে তরুণীকে নির্যাতন বা মারপিটের কোনো খবর পাইনি।

এ ব্যাপারে থানায় অভিযোগ দায়ের হলে বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হবে বলে জানান ওসি।

news24bd.tv তৌহিদ

সম্পর্কিত খবর