তিমি মৃত্যুর সঠিক কারণ দ্রুত চিহ্নিত করতে হবে: সেভ আওয়ার সি

অনলাইন ডেস্ক

তিমি মৃত্যুর সঠিক কারণ দ্রুত চিহ্নিত করতে হবে: সেভ আওয়ার সি

কক্সবাজার সৈকতে গত ৯ এবং ১০ এপ্রিল পরপর দু’দিন জোয়ারের পানিতে ভেসে আসা দুইটি (Bryde's whale) ব্রাইড প্রজাতির তিমির মৃত দেহ পাওয়া গেছে। যা সাগরের জীববৈচিত্র্য রক্ষায় উদ্বেগজনক বার্তা বহন করে।

এই প্রজাতির তিমির খাদ্যাভাস এবং স্বভাবসূলব বিচরণ ক্ষেত্রটা অনেক গভীর সমূদ্রে। স্বাভাবিকভাবে অল্প পানিতে আসে না। বাংলাদেশে সোয়াচ অব নোবটম থেকে শুরু করে শ্রীলংকা, মাদাগাস্কা এবং এদিকে আন্দামান সাগর হয়ে ওশানিয়া এবং প্যাসিফিক সাগরের গভীর এবং উষ্ঞ অঞ্চলে চলাচল করে।

এগুলো মরার কারণ হতে পারে গোস্টনেটের ফাঁদে পড়া, পেটে প্লাস্টিক ও অচনশীল দ্রব্যের উপস্থিতি অথবা পানির নিচে সাবমেরিন বিধ্বংসী বিস্ফোরণ। এছাড়া ব্যাকটেরিয়া, ফাঙ্গাস, ভাইরাস, প্যারাসাইড, বণ্য  অথবা যান্ত্রিক সংঘর্ষ ও মৃত্যুর কারণ হতে পারে।


খালেদা জিয়াসহ ফিরোজা বাসভবনের সবাই করোনায় আক্রান্ত, চলছে চিকিৎসা

ভ্যাকসিন নিয়ে পাইলট-কেবিন ক্রুরা ৪৮ ঘণ্টা ফ্লাইটে যেতে পারবেন না

মাদরাসা ও মসজিদ লকডাউনের আওতামুক্ত রাখার দাবি


তিমি ফিল্টার ফিডিং পদ্দতিতে ছোট প্রজাতির মাছের ঝাঁক এবং অন্যান্য ছোট কিছু প্রাণী খেয়ে বাঁচে। সূর্যের আলোতে গভীর পানির নিচে এদের খাবারগুলো থাকলেও চাঁদের আলোতে খাবারগুলো আবার উপরিভাগে চলে আসে। সে সময় জাহাজের সঙ্গেও সংঘর্ষ হতে পারে।

ময়নাতদন্ত করে প্রতিনিয়ত মৃত্যুর সঠিক কারণ উদঘাটন করা জরুরি। মৃত্যুর কারণ আমাদের জলসীমা অথবা আমাদের জলসীমার বাহিরেও হতে পারে। যদি আমাদের জলসীমায় হয়ে থাকে তাহলে আমাদের সেই অনুযায়ী প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিতে হবে। আর যদি অন্য দেশে ঘটে থাকে তাহলে বাংলাদেশকে আন্তর্জাতিক অঙ্গনেও সমস্যাগুলোকে প্রতিকার করার জন্য সচেষ্ট হতে হবে।

সমূদ্রের জীববৈচিত্র্য রক্ষায় সেভ আওয়ার সি’র ভবিষ্যত পরিকল্পনায় রয়েছে- ভেটেনারি, আন্ডারওয়াটার এক্সপ্লোরার, ওশান সায়েন্টিস্টদের সঙ্গে নিয়ে সমূদ্রের অসঙ্গতি দূর করার জন্য একটি দল কাজ করা। আহত সামূদ্রিক প্রাণীদের উদ্ধার,  চিকিৎসা ও আহতের কারণ উদঘাটন করা এবং সমূদ্র দূষণ দূরীকরণ ও সমূদ্রের জীববৈচিত্র সংরক্ষনের আইনগত বিষয়ে কাজ করা।

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

ছুটির বিকেলে বৃষ্টিতে ভিজলো ঢাকা

নিজস্ব প্রতিবেদক

ছুটির বিকেলে বৃষ্টিতে ভিজলো ঢাকা

আজ শুক্রবার, সরকারি ছুটির দিন। কড়া রোদের তপ্ত দুপুরই ছিল আজ। তবে বিকেল নামতেই বদলে গেল ঢাকার আকাশ। তারপর রাজপথের ধুলো উড়িয়ে শুরু হলো ঝড়ো হাওয়া, সঙ্গে সঙ্গে ঝুম বৃষ্টি আর মৃদু বজ্রের গর্জন।

বিকেল ৩টা ৫০ মিনিটের দিকে এ বৃষ্টি শুরু হয়। আর এ বৃষ্টিতে ভ্যাপসা গরমের অবসান ঘটেছে। স্বস্তি নেমে এসেছে শহরজুড়ে। বিকেল ৪টা ৫মিনিটে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত বৃষ্টি হচ্ছিলো।

এদিকে হঠাৎ করে বৃষ্টি নামায় বিপাকে পড়েন পথচারীরা। বৃষ্টি নামার সঙ্গে সঙ্গে রাস্তার পাশে বিভিন্ন দোকানগুলোতে আশ্রয় নেন তারা। যারা রিকশায় ছিলেন তারাও পর্দা না থাকায় ভিজেছেন। বৃষ্টি থেকে বাঁচতে অনেককে যাত্রীছাউনিতে আশ্রয় নিতে দেখা যায়।

আবহাওয়া অধিদপ্তর বলছে,গতকাল বৃহস্পতিবার দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল রাজশাহীতে ৩৬ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে টাঙ্গাইলে ২৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। 

আরও পড়ুন:


রাজশাহী মেডিকেলে করোনা ও উপসর্গ নিয়ে ১৫ জনের মৃত্যু

বিয়েটা সেরেই ফেললেন রেলমন্ত্রী, পাত্রীর পরিচয় জানুন...

সুযোগ পেলে নায়ক হিসেবে অভিনয় করতে রাজি বেরোবি উপাচার্য কলিমউল্লাহ

পাওনা টাকা না দেওয়ায় প্রায় ৬ কোটি টাকার বাড়ি ভেঙে দিলেন মিস্ত্রি


 

বৃহস্পতিবার ঢাকায় সর্বোচ্চ ৩৪ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং সর্বনিম্ন ২৫ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্র রেকর্ড করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত গত ২৪ ঘণ্টায় দেশের সর্বোচ্চ বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে সাতক্ষীরায় ৪২ মিলিমিটার। এ ছাড়া কক্সবাজারে ২১, কুতুবদিয়ায় ১৭, চট্টগ্রামে ১৩ এবং সীতাকুণ্ড ও চাঁদপুরে ১২ মিলিমিটার করে বৃষ্টিপাত হয়।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

আবারও সাগরে লঘুচাপের আভাস, রূপ নিতে পারে ঘূর্ণিঝড়ে

অনলাইন ডেস্ক

আবারও সাগরে লঘুচাপের আভাস, রূপ নিতে পারে ঘূর্ণিঝড়ে

আবারও সাগরে লঘুচাপের আভাস। সাগর পৃষ্ঠের পানির উপরিতল গরম হয়ে যাওয়ায় লঘুচাপ সৃষ্টি হয়েছে। গত মাসের শেষ ভাগে সাগরে সৃষ্ট লঘুচাপই পরবর্তীকালে ঘূর্ণিঝড় ইয়াসে রূপ নিয়েছিল। যদিও দীর্ঘমেয়াদী পূর্বাভাসে বলা হচ্ছে এই লঘুচাপ নিম্নচাপে রূপ নেবে।

আবহাওয়াবিদ একেএম রুহুল কুদ্দুস জানান, বৃহস্পতিবার (১০ জুন) নাগাদ মৌসুমী বায়ু তথা বর্ষা সারাদেশে বিস্তার লাভ করতে পারে। আর শুক্রবারের দিকে সাগরে সৃষ্টি হতে পারে লঘুচাপ।

এক পূর্বাভাসে আবহাওয়া অফিস জানায়, দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমী বায়ু চট্টগ্রাম, বরিশাল, ঢাকা, ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগ পর্যন্ত অগ্রসর হয়েছে। দেশের অবশিষ্টাংশে মৌসুমী বায়ু আরও অসের হওয়ার জন্য আবহাওয়া পরিস্থিতি অনুকূলে রয়েছে। মৌসুমী বায়ু দেশের পূর্বাঞ্চলের উপর সক্রিয় এবং উত্তর-পূর্ব বঙ্গোপসাগরে এটি মাঝারি অবস্থায় বিরাজ করছে।

এ অবস্থায় মঙ্গলবার (০৮ জুন) সন্ধ্যা পর্যন্ত ঢাকা, ময়মনসিংহ, বরিশাল, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের অনেক জায়গায় এবং রংপুর, রাজশাহী ও খুলনা বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টি-বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেই সঙ্গে দেশের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরনের ভারী থেকে ভারী বর্ষণ হতে পারে।

আরও পড়ুন


এবার গাজায় হত্যাযজ্ঞ চালানো নিয়ে ইসরাইলকে যে বার্তা দিলেন কিম

হামাসের হুমকির মুখে জেরুজালেমে প্যারেড বাতিল করল ইসরাইল

আল্লাহর সঙ্গে নাফরমানির জন্য যে শোচনীয় পরিণতি ভোগ করতে হবে

বাংলাদেশ জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের সহ-সভাপতি নির্বাচিত


এদিকে ফরিদপুর, রাজশাহী, পাবনা, সিরাজগঞ্জ এবং কুষ্টিয়া অঞ্চল সমূহের উপর দিয়ে মৃদু তাপ প্রবাহ বয়ে যাচ্ছে এবং তা প্রশমিত হতে পারে। সারাদেশে দিন এবং রাতের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে। ঢাকায় এ সময় দক্ষিণ/দক্ষিণ-পূর্ব দিক থেকে ঘণ্টায় বাতাসের গতিবেগ থাকবে ১০-১৫ কিলোমিটার।

বুধবার নাগাদ সারাদেশের অবশিষ্টাংশে দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমী বায়ু বিস্তার লাভ করতে পারে। আর বর্ধিত পাঁচ দিনে উত্তর বঙ্গোপসাগরে একটি লঘুচাপ সৃষ্টি হতে পারে।

news24bd.tv আহমেদ

পরবর্তী খবর

সাতসকালে রাজধানীতে নেমে এলো স্বস্তির বৃষ্টি

অনলাইন ডেস্ক

সাতসকালে রাজধানীতে নেমে এলো স্বস্তির বৃষ্টি

ভোর থেকেই রাজধানীর আকাশ ছিলো কালো মেঘে ঢাকা। সঙ্গে ছিল প্রবল মেঘের গর্জন। অবশেষে নেমে এলো বৃষ্টি। আর এতেই স্বস্তি নেমে আসে।

শনিবার ( ৫ জুন) সকাল ৮টা ১৫ মিনিটের দিকে বৃষ্টি শুরু হয়।

সকালবেলার বৃষ্টিতে পথ চলতে গিয়ে অসুবিধায় পড়েছেন কর্মব্যস্ত মানুষ। বিশেষ করে অফিসগামী মানুষদের বেশি বিপত্তিতে পড়তে হয়। বৃষ্টি থেকে বাঁচতে অনেককে যাত্রীছাউনিতে আশ্রয় নিতে দেখা যায়।

আরও পড়ুন:

 কারাগারে ছেলের মৃত্যুর বিচার বিভাগীয় তদন্ত চেয়ে বাবার মামলা

 বজ্রপাতে একদিনে প্রাণ গেল ১০ জনের

 এবার ফেসবুকে ২ বছরের জন্য নিষিদ্ধ ট্রাম্প

 বজ্রপাত থেকে বাঁচতে করণীয়

 

ঝুম বৃষ্টি দারুণ উপভোগও করছেন অনেকে। কেউ কেউ আবার বৃষ্টিতে গা ভিজিয়েও নিয়েছেন। সবার চোখেমুখে ছিল স্বস্তি। তীব্র তাপপ্রবাহ আর ভ্যাপসা গরমের পর স্বস্তির বৃষ্টিতে হিমেল পরশ পেল রাজধানীবাসী।

সকাল সাড়ে ৮টায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত বৃষ্টি চলছিলো।

ন news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

বিভিন্ন স্থানে বজ্রপাতসহ ভারী বৃষ্টির আশঙ্কা, বাড়বে তাপমাত্রা

অনলাইন ডেস্ক

বিভিন্ন স্থানে বজ্রপাতসহ ভারী বৃষ্টির আশঙ্কা, বাড়বে তাপমাত্রা

আজ দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে মাঝারি থেকে ভারী বৃষ্টিপাত হতে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। তবে বৃষ্টিপাত কমলেও তাপমাত্রা আগের চেয়ে বাড়তে পারে বলেও আশঙ্কা করছে তারা।

আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, বৃষ্টিপাত আরো কমতে পারে। একই সঙ্গে তাপমাত্রা আরো বাড়বে।

আবহাওয়াবিদ একেএম রুহুল কুদ্দুছ জানান, লঘুচাপের বর্ধিতাংশ পশ্চিমবঙ্গ ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে, এর বর্ধিতাংশ অবস্থান করছে উত্তর বঙ্গোপসাগর পর্যন্ত।

চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের অনেক জায়গায় এবং ময়মনসিংহ, ঢাকা, বরিশাল, রাজশাহী, রংপুর ও খুলনা বিভাগের দু'এক জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা বা,ঝড়ো হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারী ধরনের বজ্রসহ বৃষ্টিপাত হতে পারে।


আরও পড়ুন


জনসংখ্যা বাড়াতে চীনে তিন সন্তান নীতির অনুমোদন

লাউডস্পিকারে আজান বন্ধের যে ব্যাখ্যা দিল সৌদি আরব

নিরামিষাশী অভিনেতার নামে মাংসের দোকান দিয়ে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ

তিন মাস বেতন পাবেন না মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রীসহ অন্যান্য মন্ত্রীরা


একই সঙ্গে দেশের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরনের ভারী থেকে ভারী বর্ষণ হতে পারে। সারাদেশে দিন ও রাতের তাপমাত্রা সামান্য বাড়তে পারে। ঢাকায় এসময় দক্ষিণ/দক্ষিণ-পশ্চিম দিক থেকে বাতাসের গতিবেগ থাকবে ঘণ্টায় ১০-১৫ কিমি।

শুক্রবার নাগাদ তাপমাত্রা আরও বাড়তে পারে। তবে বর্ধিত পাঁচদিনে মৌসুমি বায়ু দেশের উপকূলে এলে বৃষ্টিপাত পুনরায় বাড়বে।

news24bd.tv / নকিব

পরবর্তী খবর

সাতসকালে আকাশভাঙা বৃষ্টিতে ভিজলো রাজধানী

অনলাইন ডেস্ক

সাতসকালে আকাশভাঙা বৃষ্টিতে ভিজলো রাজধানী

ভোরেই তুমুল বৃষ্টি ভিজলো রাজধানী। প্রথমে কানফাটা মেঘের গর্জন তারপর শুরু হয় আকাশভাঙা বৃষ্টি। মঙ্গলবার (১ জুন) সকাল পৌনে সাতটার দিকে বৃষ্টি শুরু হয়। 

এর আগে ভোর সোয়া পাঁচটার দিকে বৃষ্টি হয়। কিন্তু তা বেশিক্ষণ স্থায়ী হয়নি। খানিক সময়ের জন্য ছুটি নিয়ে আবারো নেমে এলো বৃষ্টি। তবে এবারের বৃষ্টি নগর জীবনে স্বস্তি নিয়ে আসে।

তুমুল বৃষ্টিপাতের কারণে আলোর স্বল্পতায় হেডলাইট জ্বালিয়ে চলতে দেখা যায় যানবাহনকে। অনেক এলাকায় সড়কে জমেছে পানি।

অন্যদিকে, বৃষ্টি আর ঝড়ো হাওয়ায় ​নিম্ন আয়ের এবং ফুটপাথে থাকা মানুষগুলোকে দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।

সকাল ৭টা ৫ মিনিটে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত বৃষ্টি হচ্ছিলো। 

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর