ফেসবুক লাইভে এসে ‘সশস্ত্র’ হওয়ার হুমকি কাদের মির্জার

অনলাইন ডেস্ক

ফেসবুক লাইভে এসে ‘সশস্ত্র’ হওয়ার হুমকি কাদের মির্জার

আবারও ফেসবুক লাইভে এসে ‘সশস্ত্র’ হওয়ার হুমকি দিয়েছেন নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জের বসুরহাট পৌরসভার মেয়র আবদুল কাদের মির্জা।

আজ বৃহস্পতিবার বিকেল ৪টা ১২ মিনিটে অনুসারী স্বপন মাহমুদের ফেসুবকের লাইভে এসে কাদের মির্জা এ হুমকি দিয়েছেন।

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের ছোট ভাই কাদের মির্জা গত মঙ্গলবার ফেসবুক লাইভে তাঁর অনুসারী নাজিম উদ্দিন ওরফে মিকনকে ক্রসফায়ারে দেওয়ার আশঙ্কার কথা জানিয়ে ‘হত্যার বদলে হত্যার’ হুমকি দিয়েছিলেন।

এরপর গতকাল বুধবার ভোররাত সাড়ে চারটার দিকে আরেকটি লাইভে কোম্পানীগঞ্জের শান্তি ফিরিয়ে আনতে অনেকগুলো প্রস্তাব তুলে ধরেন।

আজ ৮ মিনিট ২৭ সেকেন্ডের লাইভ ভিডিওত করেন আবদুল কাদের মির্জা।

তিনি বলেন, ‘গত পরশু (প্রকৃতপক্ষে গতকাল বুধবার) সাহরির সময় কোম্পানীগঞ্জের শান্তির জন্য একটা প্রস্তাব দিয়েছিলাম। করোনা থেকে কোম্পানীগঞ্জের মানুষকে রক্ষা করার জন্য একটি পদক্ষেপ আমি নিয়েছি। সেটি আপনারা শুনেছেন। কিন্তু আজকে আমার সেই প্রস্তাবে প্রশাসন এবং ওবায়দুল কাদের, তাঁর স্ত্রী, একরাম-নিজামের... (গালি), অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীরা এবং এখানকার প্রশাসনের দায়িত্বে থাকা একরাম-নিজামের (সাংসদ নিজাম উদ্দিন হাজারী ও সাংসদ একরামুল করিম চৌধুরী) ... আমার প্রস্তাবে সাড়া না দিয়ে তাণ্ডব চালিয়ে যাচ্ছে। বাড়িতে বাড়িতে আমার ছেলেদেরকে গ্রেপ্তার করছে।’

সেতুমন্ত্রীর ভাই আবদুল কাদের মির্জা বলেন, ‘আমি ছেড়ে দিব না। আমার ছেলেকে এইভাবে আহত করার পর তারা বাড়িতে কীভাবে বসে বসে মিটিং করে? দিনরাত তারা সেখানে আড্ডা দেয়, প্রত্যেকটা ছেলের হাতে অস্ত্র। অস্ত্র নিয়ে তারা থানায় যায়, অস্ত্র নিয়ে ওসির সামনে বসে থাকে। এই অবস্থা এখানে চলছে। এই অবস্থা যদি চলতে দেয়, আমরা বসে থাকব না। আমরাও সশস্ত্র হব অজস্র মৃত্যুতে।’

লাইভে কাদের মির্জা বলেন, ‘আমি অসুস্থ। এ অবস্থায় রাজু নামের একটা ছেলে, সে ত্যাগী কর্মী আমার দলের। তাকে আমার পৌরসভার ক্যাম্পাস থেকে গ্রেপ্তার করে অমানুষিক নির্যাতন করেছে। গত তিন দিনে আমাদের প্রায় ১০ জন ছেলেকে ধরে নিয়ে অমানুষিক নির্যাতন করেছে। আমি দেখার জন্য সেখানে গেলে শামীম (সদর সার্কেলের অতিরিক্তি পুলিশ সুপার মো. শামীম কবির) এবং ওসি (ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মীর জাহেদুল হক) আমার গায়ের ওপর হাত দিয়েছে। প্রশাসনের উচ্চ পর্যায়ে কথা বলেও কোনো প্রতিকার পাইনি।’

কাদের মির্জা অভিযোগ করেন, ‘আজকে আমার ছেলের ওপর আঘাত করল, পিটিয়ে তার মাথা চৌচির করে ফেলেছে। আজকে অসুস্থ অবস্থায় বাড়িতে অবস্থান করছে। সে যন্ত্রনায় কাতরাচ্ছে। লকডাউনের কারণে ঢাকায় যেতে পারছে না। তার ওপর হামলাকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা না নিয়ে আজও আমার ছেলেদেরকে গ্রেপ্তার করেছে। ...(গালি) ওসি, এই ওসি রাহাইত্তার (ভাগনে ফখরুল ইসলাম রাহাত) টাকা খায়, রাহাইত্তা ওসির চেম্বারে বসে থানা নিয়ন্ত্রণ করে। সে রাজুকে বলেছে তোমার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য আমি এক কোটি টাকা খরচ করব। সে কাজটা করেছে। তার কথায় থানা ওঠে আর বসে।’

কাদের মির্জা তাঁর অনুসারীদের উদ্দেশে বলেন, ‘আমি আমার কর্মীদের বলব, আমি শান্তির প্রস্তাব দিয়েছি। আমি আজকের দিন দেখব, আজকের দিন দেখার পর তোমাদের আগামী দিন সিদ্ধান্ত দিব। সেই সিদ্ধান্তের আলোকে রাজপথে আমিও থাকব। আমি দেখব, কোথাকার পুলিশ, প্রশাসন কী জিনিস, আমি দেখব। প্রয়োজনে জেলে যাব, জীবন উৎসর্গ করব।’

কাদের মির্জার ছেলের ওপর হামলাকারীদের গ্রেপ্তার না করে তাঁর অনুসারীদের গ্রেপ্তার ও হয়রানির অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মীর জাহেদুল হক বলেন, কাদের মির্জার অভিযোগের কোনো ভিত্তি নেই। তাঁর ছেলে আহত হওয়ার ঘটনায় হওয়া মামলায় এ পর্যন্ত পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তিনি সবকিছু জেনেও লাইভে এসে প্রতিদিন মিথ্যাচার করেন।

পরবর্তী খবর

১০ ফুট দৈর্ঘ্যের মৃত ডলফিন ভেসে উঠল কুয়াকাটা সৈকতে

অনলাইন ডেস্ক

১০ ফুট দৈর্ঘ্যের মৃত ডলফিন ভেসে উঠল কুয়াকাটা সৈকতে

কুয়াকাটা সৈকতে ভেসে উঠল ১০ ফুট দৈর্ঘ্যের একটি মৃত ডলফিন। ডলফিনটির শরীরের বিভিন্ন স্থানে ক্ষত চিহ্ন লক্ষ করা গেছে। জালে জড়িয়ে আঘাতে ডলফিনটি মারা যেতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

রোববার দুপুরে পটুয়াখালীর কুয়াকাটা সমুদ্রসৈকত সংলগ্ন লেম্বুর চরে ডলফিনটি স্থানীয়দের নজরে আসে।


প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, মৃত ডলফিনটি প্রথমে স্থানীয়রা দেখতে পায়। পরে তারা মৎস্য ও বন বিভাগের কর্মকর্তাদের খবর দেয়। আগেও কুয়াকাটার সৈকতে ভেসে এসেছিল বেশ কয়েকটি মৃত ডলফিন ও তিমি। কি কারণে এসব সামুদ্রিক জীবের মৃত হচ্ছে সেটা নিশ্চিত করতে পারেনি মৎস্য বিভাগ। 

কলাপাড়া উপজেলা সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা অপু সাহা বলেন, ডলফিন বন্যপ্রাণি। তাই বনবিভাগের সহায়তায় এটিকে মাটি চাপা দেওয়া হয়েছে।

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

মোংলা বন্দরে এসেছে মেট্রোরেলের আরো ছয়টি রেলওয়ে কার

শেখ আহসানুল করিম, বাগেরহাট

মোংলা বন্দরে এসেছে মেট্রোরেলের আরো ছয়টি রেলওয়ে কার

মোংলা বন্দরে এসে পৌঁছেছে মেট্রোরেলের দ্বিতীয় চালানে আরো ছয়টি রেলওয়ে কার বা বগি। জাপানের কোবে বন্দর থেকে ছেড়ে আসা মেট্রোরেলের বগিবাহী বেলিজের পতাকাবাহী ‘এমভি ওশান গ্রেস’ জাহাজ রবিবার দুপুরে মোংলা বন্দরের ৭ নম্বর জেটিতে এসে নোঙ্গর করে।

বিকেলে বন্দর জেটি থেকে ছয়টি রেলওয়ে কার বা বগিসহ আনুসাঙ্গিক মালামাল বোঝাই কনটেইনার খালাস শুরু হয়ে। ১৬ ঘন্টা ধরে লাইটার কার্গো জাহাজে খালাসের পর এসব রেলওয়ে কার নৌপথে পাঠিয়ে দেয়া হবে উত্তারার দিয়াবাড়ীতে। মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষ এতথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে ২১ এপ্রিল সকালে জাহাজীকরণ শেষে কোবে সমুদ্রবন্দর থেকে এই দ্বিতীয় চালানের ছয় সেট ট্রেন নিয়ে জাপানের কোবে বন্দর থেকে বাংলাদেশে রওনা দিয়েছিল জাহাজ ‘এমভি ওশান গ্রেস’। এই নিয়ে মোংলা বন্দরে মেট্রোরেলের দুটি চালান পৌঁছালো। গত ৩১ মার্চ ছয়টি রেলওয়ে কার বা বগি নিয়ে মেট্রোরেলের প্রথম চালান পৌঁছায় মোংলা বন্দরে। প্রথম চালানের ছয়টি রেলওয়ে কার ইতিমধ্যে নদী পথে ঢাকায় পৌঁছেছে।

মেট্রোরেলের রেলওয়ে কারবাহী বিদেশি জাহাজটির স্থানীয় শিপিং এজেন্ট এনসিয়েন্ট স্টিমশিপ কোম্পানি লিমিটেডের মহাব্যবস্থাপক মো. ওহিদুজ্জামান জানান, ছয়টি বগি নিয়ে ‘এমভি ওশান গ্রেস’ নামের জাহাজটি মোংলা বন্দরে এসে পৌঁছানো পর বগিসহ আনুসাঙ্গিক মালামাল বোঝাই কনটেইনার খালাস কাজ বিকালে শুরু হয়েছে । এর ওজন হবে ২৬৭ মেট্রিক টন। ১৬ ঘন্টা ধরে লাইটার কার্গো জাহাজে খালাসের পর এসব রেলওয়ে কার নৌপথে নেয়া হবে উত্তারার দিয়াবাড়ীতে।

ঢাকা ম্যাস র‌্যাপিড ট্রানজিট কোম্পানি লিমিটেডের কন্ট্রাক্ট প্যাকেজ-৮ এর প্রকল্প ব্যবস্থাপক এবিএম আরিফুর রহমান জানান, মেট্রোরেলের লাইন-৬ কন্ট্রাক্ট প্যাকেজ-৮ এর আওতায় ২৪টি যাত্রীবাহী রেল কোচ আমদানি করা হবে। প্রতিটি কোচে ছয়টি বগি বা কার থাকবে।

ছয়টি বগির একটি প্যাকেজে ভ্যাট-ট্যাক্সসহ প্রায় একশ কোটি টাকা ব্যয় হচ্ছে। রবিবার দুপুরে দ্বিতীয় বারের মত মেট্রোরেলে ছয়টি বগি মোংলায় এসেছে। এর আগে ৩১ মার্চ সর্বপ্রথম ছয়টি বগি এসেছিল মোংলা বন্দরে। পরবর্তীতে আমরা তা নৌপথে ঢাকায় মেট্রোরেলের নিজস্ব স্থানে নিয়েছি।

মেট্রোরেলের জন্য ২৪ সেট ট্রেন তৈরি করছে জাপানের কাওয়াসাকি-মিতসুবিশি। প্রতি সেট ট্রেনের দুপাশে দুটি ইঞ্জিন থাকবে। এর মধ্যে থাকবে চারটি করে কোচ। ট্রেনগুলোয় ডিসি ১৫০০ ভোল্ট বিদ্যুৎ সরবরাহের ব্যবস্থা থাকবে। স্টেইনলেস স্টিল বডির ট্রেনগুলোতে থাকবে লম্বালম্বি আসন। প্রতিটি ট্রেনে থাকবে দুটি হুইল চেয়ারের ব্যবস্থা। শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত প্রতিটি বগির দুপাশে থাকবে চারটি করে দরজা। জাপানি স্ট্যান্ডার্ডের নিরাপত্তাব্যবস্থা সংবলিত প্রতিটি মেট্রোরেলে যাত্রী ধারণক্ষমতা হবে এক হাজার ৭৩৮ জন।

মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান রিয়ার এ্যাডমিরাল মোহাম্মদ মুসা জানান, রবিবার দুপুরে দ্বিতীয় বারের মত মোংলা বন্দরে এসে পৌঁছেছে মেট্রোরেলের বগি নিয়ে এসেছে একটি বিদেশী জাহাজ। পর্যায়ক্রমে ২০২২ সালের মধ্যে ২৪টি জাহাজে করে এ বন্দর দিয়ে খালাস হবে মেট্রোরেলের আরও ১৪৪ টি বগি।

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

খালেদা জিয়ার বিষয় আইনের বাইরে যাওয়ার সুযোগ নেই: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক

খালেদা জিয়ার বিষয় আইনের বাইরে যাওয়ার সুযোগ নেই: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেছেন, বিএনপি আবেদন করতেই পারে কিন্তু আইনের বাইরে যাওয়ার সুযোগ নেই।

খালেদা জিয়া বিদেশ যেতে পারবেন না। আইন মন্ত্রনালয় থেকে স্পষ্ট জানানো হয়েছে ৪০১ ধারায় সাজা স্থগিত করে তাকে একবার শর্ত সাপেক্ষে, যে সুযোগ দেয়া হয়েছে সেখানে পুনরায় দেয়ার সুযোগ নেই।

news24bd.tv / কামরুল 

পরবর্তী খবর

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্ত ১৩৮৬

নিজস্ব প্রতিবেদক

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্ত ১৩৮৬

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ১ হাজার ১৩৮৬ জন। মোট শনাক্তের সংখ্যা হলো ৭ লাখ ৭৩ হাজার ৫১৩ জনে। 

একই সময়ে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে আরও ৫৬ জন। এ নিয়ে দেশে মোট মৃত্যুর সংখ্যা দাঁড়ালো ১১ হাজার ৯৩৪ জনে।

আজ রোববার বিকেলে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে এ তথ্য।

news24bd.tv / কামরুল 

পরবর্তী খবর

দেশে করোনায় ভাইরাসে আরও ৫৬ জনের মৃত্যু

নিজস্ব প্রতিবেদক

দেশে করোনায় ভাইরাসে আরও ৫৬ জনের মৃত্যু

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে আরও ৫৬ জন। এ নিয়ে দেশে মোট মৃত্যুর সংখ্যা দাঁড়ালো ১১ হাজার ৯৩৪ জনে।

একই সময়ে নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ১ হাজার ১৩৮৬ জন। মোট শনাক্তের সংখ্যা হলো ৭ লাখ ৭৩ হাজার ৫১৩ জনে। 

আজ রোববার বিকেলে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে এ তথ্য।

news24bd.tv / কামরুল 

পরবর্তী খবর