ফিলিস্তিনি জনগণের বিরুদ্ধে ‘যুদ্ধাপরাধ’ করছে ইসরাইল: ফিলিস্তিনি পররাষ্ট্রমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক

ফিলিস্তিনি জনগণের বিরুদ্ধে ‘যুদ্ধাপরাধ’ করছে ইসরাইল: ফিলিস্তিনি পররাষ্ট্রমন্ত্রী

ফিলিস্তিনি জনগণের ওপর ইহুদিবাদী ইসরাইল ‘যুদ্ধাপরাধ’ চালাচ্ছে বলে বলে জানিয়েছেন ফিলিস্তিনি স্বশাসিত সরকারের পররাষ্ট্রমন্ত্রী রিয়াদ আল-মালিকি। রোববার রাতে জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের এক ভার্চুয়াল বৈঠকে দেয়া বক্তৃতায় এ আহ্বান জানান তিনি।

অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকার ওপর চলমান ইসরাইলি গণহত্যা বন্ধ করতে তেল আবিবের ওপর চাপ সৃষ্টি করার জন্য আন্তর্জাতিক সমাজের প্রতি আহ্বানও জানিয়েছেন তিনি।

তিনি বলেন, “ইসরাইল গাজায় একসঙ্গে একটি পরিবারের সবাইকে হত্যা করছে। ইসরাইল ফিলিস্তিনিদেরকে তাদের ঘরবাড়ি থেকে পুরোপুরি বিতাড়িত করে বায়তুল মুকাদ্দাস থেকে ফিলিস্তিনি জনগণকে সমূলে উৎপাটন করার চেষ্টা করে যাচ্ছে। ইসরাইল আমাদের জনগণের বিরুদ্ধে যুদ্ধাপরাধ ও মানবতা বিরোধী অপরাধ করে যাচ্ছে। এসব পরিভাষা সহজে কেউ ব্যবহার করতে চায় না কিন্তু ইসরাইল প্রকৃত অর্থেই এসব অপরাধ করে যাচ্ছে।”

ফিলিস্তিনি পররাষ্ট্রমন্ত্রী ইসরাইলকে একটি ‘বর্ণবিদ্বেষী’ সরকার হিসেবে অভিহিত করে এটির আগ্রাসন বন্ধ করতে ব্যবস্থা নেয়ার জন্য নিরাপত্তা পরিষদের প্রতি আহ্বান জানান। তিনি বলেন, “এখনই স্বাধীনতা রক্ষা করার জন্য ব্যবস্থা নিন, বর্ণবৈষম্য রক্ষা করতে নয়।”


আরও পড়ুনঃ


করোনা আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি কবি জয় গোস্বামী

ফিলিস্তিনিদের বাঁচাতে দ্রুত পদক্ষেপ নেয়ার আহ্বান বাংলাদেশের

ধ্বংসস্তূপে ওপর দাঁড়িয়ে র‍্যাপ গাইল ফিলিস্তিনি শিশু (ভিডিও)

হাঙ্গর পৃথিবীর চৌম্বক ক্ষেত্রকে জিপিএস হিসেবে ব্যবহার করে


ফিলিস্তিনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, "ইসরাইল এক ধরনের কাজ করে তার ভিন্ন ধরনের ফল আশা করছে। ইসরাইল কি মনে করে তার সেনারা মুসলমানদের পবিত্রতম মাস রমজানে এবং পবিত্রতম রাত শবে কদরে তাদের পবিত্রতম আল আকসা মসজিদে আগ্রাসন চালাবে আর ফিলিস্তিনিরা নীরবে তা সহ্য করবে?  তেল আবিব কি মনে করে ফিলিস্তিনিরা অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকায় বসবাস করবে আর ইসরাইলি বসতি স্থাপনকারীদের হাতে তাদের পাশের বাড়িটির দখল হয়ে যাওয়া চেয়ে চেয়ে দেখবে? তারা কি এটা প্রত্যাশা করে যে, তারা ফিলিস্তিনিদের ভূখণ্ড জবরদখল করে যা খুশি তাই করবে এবং এরপর ফিলিস্তিনিরা তাদের সঙ্গে সহাবস্থান করবে? পৃথিবীতে এমন কোনও মানুষ নেই যে এই বাস্তবতা সহ্য করবে।”

নিরাপত্তা পরিষদের বৈঠকে জাতিসংঘ মহাসচিব এন্তোনিও গুতেরেসও গাজা উপত্যকার ওপর ইসরাইলি আগ্রাসন বন্ধ করার আহ্বান জানিয়েছেন।

news24bd.tv / নকিব

পরবর্তী খবর

ইরানের নতুন প্রেসিডেন্ট হিসেবে নির্বাচিত ইব্রাহিম রাইসি

অনলাইন ডেস্ক

ইরানের নতুন প্রেসিডেন্ট হিসেবে নির্বাচিত ইব্রাহিম রাইসি

ইরানের প্রেসিডেন্ট হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন ইব্রাহিম রাইসি। এর আগে ১৩ তম প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে অন্যান্য প্রতিদ্বন্দ্বীদের পেছনে ফেলে তিনি। ভোট গণনার সময় এগিয়ে থাকায় সম্ভাব্য প্রেসিডেন্ট হিসেবে তাকে অভিনন্দন জানান প্রতিদ্বন্দ্বীরা।

শনিবার (১৯ জুন) দুপুরে নিউইয়র্ক টাইমস’র এক প্রতিবেদন থেকে জানা যায় এ তথ্য। যদিও এখনো আনুষ্ঠানিকভাবে নির্বাচনের ফলাফল প্রকাশ করা হয়নি।

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের প্রাক্তন গভর্নর আবদুলনাসের হেমমতী জনাব রাইসিকে অভিনন্দন জানিয়ে ইনস্টাগ্রামে তাকে ‘ইসলামী প্রজাতন্ত্রের ১৩তম রাষ্ট্রপতি’ সম্বোধন করেছেন। এছাড়া অপর প্রার্থী ইসলামী বিপ্লবী গার্ড কর্পস-এর প্রাক্তন কমান্ডার ইন চিফ, মহসেন রেজায়িও জনাব ইব্রাহিম রাইসিকে অভিনন্দন জানিয়েছেন।

এবারের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন- সাইয়্যেদ ইব্রাহিম রাইসি, মোহসেন রেজায়ি, আব্দুন নাসের হেম্মাতি এবং কাজিযাদে হাশেমি।

আরও পড়ুন:


দুর্লভ আবাসিক পাখি ‘জল ময়ূর’

কাপুরুষোচিত হামলা চালিয়ে ইসরাইলি সেনাদের মনোবল চাঙ্গা হবে না: হামাস

বিবস্ত্র করা ছবি তুলে ফাঁদে ফেলে প্রবাসীর স্ত্রী, মামলায় আ.লীগ নেতাও আসামি

‘নিখিলকে আগেই বলেছিলাম, নুসরাত তোমাকে ঠকাবে’


news24bd.tv / কামরুল 

পরবর্তী খবর

মধ্যপ্রাচ্যে সেনা সংখ্যা কমাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

অনলাইন ডেস্ক

মধ্যপ্রাচ্যে সেনা সংখ্যা কমাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

মধ্যপ্রাচ্য থেকে সেনা সদস্য সংখ্যা কমাতে চাইছে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সরকার। চীন এবং রাশিয়ার সঙ্গে আমেরিকার দ্বন্দ্বের প্রেক্ষাপটে মধ্যপ্রাচ্য থেকে সেনা কমাচ্ছে মার্কিন সরকার।

এর অংশ হিসেবে ইরাক, কুয়েত, জর্দান ও সৌদি আরব  থেকে অন্তত আটটি পেট্রিয়ট ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা ব্যবস্থার ব্যাটারি সরিয়ে নিচ্ছে পেন্টাগন। বাইডেন প্রশাসনের কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে মার্কিন দৈনিক ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল এ খবর দিয়েছে।
ওই কর্মকর্তারা আরো বলেন, সৌদি আরব থেকে একটি থাড ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবস্থা ও কয়েক স্কোয়াড্রন জঙ্গিবিমান  সরিয়ে নেয়া হচ্ছে।
ইরানের সঙ্গে সামরিক উত্তেজনা বেড়ে যাওয়ার প্রেক্ষাপটে যুক্তরাষ্ট্র মধ্যপ্রাচ্যে সেনা উপস্থিতি জোরদার করে। এছাড়া, ২০১৯ সালে সৌদি তেলক্ষেত্রে দফায় দফায় হামলার পর অনেকগুলো পেট্রিয়ট ও থাড ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা মোতায়েন করা হয়।

news24bd.tv / নকিব

পরবর্তী খবর

দক্ষিণ-পশ্চিম সাইবেরিয়ান অঞ্চলে বিমান বিধ্বস্তে নিহত ৭

অনলাইন ডেস্ক

দক্ষিণ-পশ্চিম সাইবেরিয়ান অঞ্চলে বিমান বিধ্বস্তে নিহত ৭

রাশিয়ার দক্ষিণ-পশ্চিম সাইবেরিয়ান অঞ্চলের কেমেরোভো এলাকায় দুই ইঞ্জিন বিশিষ্ট এল-৪১০ মডেলের একটি বিমান বিধ্বস্ত হয়ে ৭ জন প্যারাসুটারের মৃত্যু হয়েছে। 

এ ঘটনায় ডজনখানেকের বেশি আহত হয়েছেন। তবে এদের মধ্যে চারজনের অবস্থা খুবই গুরুতর। বার্তা সংস্থা তাস’র বরাত দিয়ে শনিবার (১৯ জুন) এ তথ্য জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, একটি বনের ভেতরে বিমানটি বিধ্বস্ত হয়। দুর্ঘটনার আগে বিমানটির ক্রু ইঞ্জিন বিকল হয়ে যাওয়ার সংকেত পাঠিয়েছিলেন।

রাশিয়ান সিভিল এভিয়েশন এজেন্সির সাইবেরীয় শাখা রোসাভিয়াৎসা জানিয়েছেন, ঘটনার পর তল্লাশি ও উদ্ধার অভিযান চলছে। তবে এ বিষয়ে বিস্তারিত কোনো তথ্য জানায়নি তারা। সূত্র : রয়টার্স, তাস

আরও পড়ুন:


দুর্লভ আবাসিক পাখি ‘জল ময়ূর’

কাপুরুষোচিত হামলা চালিয়ে ইসরাইলি সেনাদের মনোবল চাঙ্গা হবে না: হামাস

বিবস্ত্র করা ছবি তুলে ফাঁদে ফেলে প্রবাসীর স্ত্রী, মামলায় আ.লীগ নেতাও আসামি

‘নিখিলকে আগেই বলেছিলাম, নুসরাত তোমাকে ঠকাবে’


news24bd.tv / কামরুল 

পরবর্তী খবর

রাশিয়ায় বিমান বিধ্বস্ত হয়ে অন্তত সাতজন নিহত

অনলাইন ডেস্ক

রাশিয়ায় বিমান বিধ্বস্ত হয়ে অন্তত সাতজন নিহত

রাশিয়ার সাইবেরিয়ান অঞ্চলের কেমেরোভো এলাকায় একটি দুই ইঞ্জিন বিশিষ্ট এল-৪১০ বিমান বিধ্বস্ত হয়ে অন্তত সাতজন নিহত এবং ডজনখানেকের বেশি আহত হয়েছেন।

শনিবার (১৯ জুন) রুশ গণমাধ্যমের বরাত দিয়ে এক প্রতিবেদনে বার্তা সংস্থা রয়টার্স এ তথ্য জানায়।

দেশটির জরুরি সেবা সংস্থা সূত্রের বরাতে বার্তা সংস্থা তাস জানিয়েছে, তানায় বিমানঘাঁটির কাছে একটি বনের ভেতরে বিমানটি বিধ্বস্ত হয়। দুর্ঘটনার আগে বিমানটির ক্রু ইঞ্জিন বিকল হয়ে যাওয়ার সঙ্কেত পাঠিয়েছিলেন। এই ঘটনায় ১৭ জন আহত হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে।


আরও পড়ুনঃ

বিবস্ত্র করা ছবি তুলে ফাঁদে ফেলে প্রবাসীর স্ত্রী, মামলায় আ.লীগ নেতাও আসামি

‘নিখিলকে আগেই বলেছিলাম, নুসরাত তোমাকে ঠকাবে’

বিয়ের পিঁড়িতে বসার আগ মূহুর্তে যে কারণে বিয়ে ভেঙে দিয়েছিলেন সালমান

চুরির দায়ে জেলে গেলেন ‘ক্রাইম পেট্রলের’ ২ অভিনেত্রী


রাশিয়ান সিভিল এভিয়েশন অ্যাজেন্সর সাইবেরীয় শাখা রোসাভিয়াৎসা রয়টার্সকে জানায়, ঘটনার পর তল্লাশি ও উদ্ধার অভিযান চলছে। তবে এ বিষয়ে বিস্তারিত কোনো তথ্য জানায়নি তারা।

news24bd.tv / নকিব

পরবর্তী খবর

চীনের রাস্তায়-গলিতে সরকারদলীয় প্রচারণামূলক বিলবোর্ড

অনলাইন ডেস্ক

চীনের রাস্তায়-গলিতে সরকারদলীয় প্রচারণামূলক বিলবোর্ড

চীনের কমিউনিস্ট পার্টির শতবর্ষ উদযাপনের পূর্বে নাগরিকদের উদ্দেশে রীতিমতো বিজ্ঞাপন দিয়েছে শাসক দল, ‘দলকে মেনে চলুন’, ‘ভদ্র আচরণ করুন’। সেই বার্তা নিয়েই এখন ব্যানারে আর বিলবোর্ডে ছাপিয়ে গলি থেকে রাজপথে।

১৯৮৯ সালের তিয়েনআনমেন স্কোয়ারের বিক্ষোভ থেকে শুরু করে সম্প্রতি উহানে করোনার খবর ফাঁসের ঘটনা— বজ্র আঁটুনির মধ্যেও বেসুরো হয়েছেন নাগরিকদের একাংশ। শক্তিধর রাষ্ট্রে আঞ্চলিক বৈষম্যের সুরও চিনের প্রাচীর ছাপিয়ে মাঝেমধ্যে বাইরে বেরিয়ে আসছে।

শতবার্ষিকীর এই সময়েই প্রশ্ন উঠেছে চিনা কমিউনিস্ট পার্টির বিভিন্ন নীতি নিয়েও। কখনও দমন নীতিতে তা সামলাতে হয়েছে কমিউনিস্ট নেতাদের, কখনও আবার ধুয়ো উঠেছে আন্তর্জাতিক ষড়যন্ত্রের। সঙ্গে কোভিড পরিস্থিতির উৎপত্তি ঘিরে দেশের প্রশাসনের উপর চাপ বাড়াচ্ছে বিশ্ব।

এই প্রেক্ষাপটেই কমিউনিস্ট পার্টির শতবর্ষে নাগরিকদের উদ্দেশে এই বার্তা দেওয়া হয়েছে। সংবাদমাধ্যমের পর্দায় বিজ্ঞাপনগুলি দেখে এমনটাই মনে করছেন কূটনীতিকদের একাংশ।

দেশের বিভিন্ন ব্যস্ত এলাকাতেই নজরে পড়ছে বিজ্ঞাপনগুলি। ব্যানার জুড়ে বড় করে লাল রঙে লেখা ‘১০০’। সঙ্গে কমিউনিস্ট দলের প্রতীক।

দলের শতবর্ষ পালন শুরু হলে যাতে কোনও রকমের বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি না-হয়, তার জন্যেই সরকারের পক্ষ থেকে এই সতর্কতামূলক পদক্ষেপ করা হচ্ছে। এমনটাই মনে করছে এই সংক্রান্ত প্রতিবেদন তুলে ধরা সংবাদমাধ্যমগুলিও।


আরও পড়ুনঃ

বিবস্ত্র করা ছবি তুলে ফাঁদে ফেলে প্রবাসীর স্ত্রী, মামলায় আ.লীগ নেতাও আসামি

‘নিখিলকে আগেই বলেছিলাম, নুসরাত তোমাকে ঠকাবে’

বিয়ের পিঁড়িতে বসার আগ মূহুর্তে যে কারণে বিয়ে ভেঙে দিয়েছিলেন সালমান

চুরির দায়ে জেলে গেলেন ‘ক্রাইম পেট্রলের’ ২ অভিনেত্রী


যে সব জায়গায় বিলবোর্ডের দিকে সাধারণের নজর কাড়া সম্ভব নয়, সেখানে বিশাল ডিজিটাল স্ক্রিন লাগানো হয়েছে। তাতে ‘পিপল‌্‌স লিবারেশন আর্মি’র ছবি। সঙ্গে নাগরিকদের উদ্দেশে বার্তা, ‘তেজস্বী, যোগ্য, সাহসী এবং ন্যায়নিষ্ঠ বিপ্লবীদের নয়া প্রজন্ম গড়ে তুলুন।’

১ জুলাই থেকে শুরু হবে উদ্‌যাপন। তার আগে দলের এই প্রয়াস নজর কেড়েছে কূটনৈতিকদের। দলের প্রতিষ্ঠার কাহিনি নাগরিকদের সামনে তুলে ধরতে একটি ছায়াছবিও মুক্তির অপেক্ষায়। যেখানে দেখা যাবে চিনের বিনোদন জগতের পরিচিত মুখগুলিকে। আগামী মাসেই মুক্তি পেতে চলেছে এই ছবি।

news24bd.tv / নকিব

পরবর্তী খবর