হামাসের সঙ্গে ইসরায়েলের বৈঠক
হামাসের সঙ্গে ইসরায়েলের বৈঠক

হামাসের সঙ্গে ইসরায়েলের বৈঠক

অনলাইন ডেস্ক

হামাসের সঙ্গে সম্ভাব্য অস্ত্রবিরতি চুক্তি নিয়ে আলোচনা করতে ইসরায়েলের নিরাপত্তা মন্ত্রিসভার বৈঠক শুরু হয়েছে। কয়েক ঘণ্টার মধ্যে এ নিয়ে সিদ্ধান্ত আসতে পারে।

বিভিন্ন সূত্রের খবর বলছে, দুই পক্ষই যুদ্ধ বন্ধের আভাস দিয়েছে। কিন্তু এখনো পরিষ্কার কোনো সিদ্ধান্ত আসেনি।

 এদিকে ইসরায়েল ও হামাসের মধ্যে চলমান যুদ্ধ বন্ধে শুক্রবার (২১ মে) সকাল নাগাদ যুদ্ধবিরতি চুক্তি হতে পারে। সূত্রের বরাতে বৃহস্পতিবার (২০ মে) এমন খবর দিয়েছে ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল।

গাজায় ইসরায়েলি বিমান হামলা ও হামাসের রকেট হামলা বন্ধে যুক্তরাষ্ট্রসহ আন্তর্জাতিক শক্তিগুলোর চাপ বাড়ছে।

ফিলিস্তিনি প্রতিরোধ আন্দোলন হামাসের সঙ্গে আলোচনা চালিয়ে যাচ্ছেন মিসরীয় কর্মকর্তারা। আর ইসরায়েলি সামরিক বাহিনী গোপনীয়ভাবে স্বীকার করেছে, তারা তাদের উদ্দেশ্য পূরণের কাছাকাছি পৌঁছে গেছে।   এক মার্কিন কর্মকর্তা বলেন, যুদ্ধবিরতির কলাকৌশল প্রস্তাব করা হয়েছে। এখন এটি কেবল সময়ের ব্যাপার।

এর আগে বাইডেন প্রশাসন আভাস দিয়েছিল যে চলতি সপ্তাহে একটি যুদ্ধবিরতি চুক্তি হতে পারে।

অন্যদিকে, ফিলিস্তিনের ইসলামি জিহাদ আন্দোলনের সামরিক শাখা আল-আকসা ব্রিগেডসের প্রভাবশালী সদস্য আবু মুহাম্মাদ বলেছেন, বায়তুল মুকাদ্দাসের পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হলে যুদ্ধবিরতি হবে না।

পূর্ব বায়তুল মুকাদ্দাসের আল-জাররা এলাকায় উচ্ছেদ অভিযান ও এরপর মসজিদুল আকসায় মুসল্লিদের ওপর ইসরায়েলি হামলা বন্ধের আহ্বানে সাড়া না দেওয়ায় গাজা থেকে প্রতিক্রিয়া দেখায় ফিলিস্তিনিরা। এখন পূর্ব বায়তুল মুকাদ্দাসের আল-জাররা ও মসজিদুল আকসার পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হলে ফিলিস্তিনিরা কোনো যুদ্ধবিরতি মানবে না বলে গাজার সংগ্রামী সংগঠনগুলো এর আগেও জানিয়েছে।

news24bd.tv/আলী

;