মন্ত্রী, সচিব বা রোজিনা কেউই আইনের ঊর্ধ্বে নন : তথ্যমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক

মন্ত্রী, সচিব বা রোজিনা কেউই আইনের ঊর্ধ্বে নন : তথ্যমন্ত্রী

গত ১৭ মে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ে সাংবাদিক রোজিনার ঘটনাকে পুঁজি করে দেশবিরোধী চিহ্নিত মহল ফায়দা লোটার চেষ্টা করছে জানিয়ে তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, কারো কর্মকাণ্ড যেন তাদের হাতে অস্ত্র তুলে না দেয়।

শনিবার দুপুরে মন্ত্রী তার মিন্টু রোডের সরকারি বাসভবনে টিভি নাট্যপরিচালকদের সংগঠন ডিরেক্টরস গিল্ডের নবনির্বাচিত কমিটির সঙ্গে সাক্ষাত শেষে সাংবাদিকদের একথা বলেন। গিল্ডের সভাপতি সালাহউদ্দীন লাভলু, সাধারণ সম্পাদক এস এম কামরুজ্জামান সাগরসহ নির্বাহী সদস্যবৃন্দ এসময় উপস্থিত ছিলেন।

এসময় তথ্যমন্ত্রী বলেন, রোজিনার ঘটনাকে রাজনীতিকরণ করা হয়েছে এবং দেশবিরোধী মহল এটি নিয়ে অতি তৎপর হয়ে উঠেছে। আপনারা দেখেছেন, অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল ফিলিস্তিনে নারী-শিশুসহ শতশত প্রাণহানি ঘটার পর বিবৃতি দিতে অনেকদিন সময় লাগলেও বিচারাধীন রোজিনা ইস্যুতে তারা পরদিনই বক্তব্য দিলো।

ড. হাছান মাহমুদ বলেন, দেশবিরোধী বিভিন্ন চক্র যারা বিদেশে বসে দেশের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করে, কুৎসা রটায়, মিথ্যা অপপ্রচার চালায়, তাদেরও সক্রিয় হতে দেখা গেছে। বেগম খালেদা জিয়ার সাবেক ডেপুটি প্রেস সেক্রেটারি মুশফিক ফজল জাতিসংঘ মহাসচিবের দপ্তরের নিয়মিত প্রেস ব্রিফিংয়ে গিয়ে একটি প্রশ্ন করে এক কর্মকর্তার কাছে থেকে সার্বজনীন গণমাধ্যম বিষয়ক একটি জবাব আদায় করেছে। সেই বক্তব্যকেই রোজিনার বিষয়ে জাতিসংঘ উদ্বেগ প্রকাশ করেছে বলে চালিয়ে দেয়ার অপচেষ্টার করেছে। জাতিসংঘের একজন কর্মকর্তার বক্তব্য আর জাতিসংঘের উদ্বেগ এক নয়।

‘মন্ত্রী, সচিব বা রোজিনা ইসলাম কেউই আইনের ঊর্ধ্বে নন’ স্মরণ করিয়ে আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘আমাদের কোনো কর্মকাণ্ডকে হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার করে দেশবিরোধীরা যাতে দেশের ক্ষতি করতে না পারে, সেদিকে সতর্ক থাকতে হবে।’

ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে শিক্ষা উপমন্ত্রীকে অবাঞ্ছিত ঘোষণা প্রসঙ্গে সাংবাদিকদের অপর এক প্রশ্নের জবাবে ড. হাছান মাহমুদ বলেন, মতের অমিল হলেই কাউকে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করা কখনোই সমীচীন নয়।

পরে মন্ত্রী বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন নেতৃবৃন্দের সঙ্গে মতবিনিময়কালে রোজিনার বিষয়টি আবেগতাড়িতভাবে না দেখে বাস্তবতার নিরিখে দেখার আহ্বান জানান। বিএফইউজে সভাপতি মোল্লা জালাল, ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মো. আবদুল মজিদ, সিনিয়র সাংবাদিক সৈয়দ ইশতিয়াক রেজা, ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের যুগ্ম সম্পাদক খায়রুল আলম, নির্বাহী সদস্য ইব্রাহিম খলিল খোকন, সিনিয়র সাংবাদিক মোতাহার হোসেন প্রমুখ এসময় উপস্থিত ছিলেন।

ডিরেক্টরস গিল্ডের অন্যান্য নেতৃবৃন্দের মধ্যে সহসভাপতিত্রয় মাসুম আজিজ, ফরিদুল হাসান, রফিকুল্লাহ সেলিম, যুগ্ম সম্পাদকদ্বয় পিকলু চৌধুরী, ফিরোজ খান, অর্থ সম্পাদক সাজ্জাদ সনি, সাংগঠনিক সম্পাদক ফেরারী অমিত, প্রচার সম্পাদক সহিদ উন নবী, প্রশিক্ষণ সম্পাদক মোস্তফা মনন, তথ্য ও প্রযুক্তি সম্পাদক আনিসুল হক ইমেল, আইন সম্পাদক মাহমুদ নিয়াজ চন্দ্রদ্বীপ, দপ্তর সম্পাদক গোলাম মুকতাদির শান ও নির্বাহী সদস্যবৃন্দ মন্ত্রীর সাথে সাক্ষাতে যোগ দেন।

news24bd.tv/আলী 

পরবর্তী খবর

চাকুরীর প্রতিশ্রুতি দিয়ে গণধর্ষণ

অনলাইন ডেস্ক

চাকুরীর প্রতিশ্রুতি দিয়ে গণধর্ষণ

এক কিশোরীকে পোশাক কারখানায় চাকুরী দেয়ার গণধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে চার জনকে গ্রেফথার করেছে র‌্যাব। জড়িতরা হলেন জসিম উদ্দিন (২৭), নুরুল আজিম (২৮), জাবের আহাম্মদ (৪৮) এবং মোহাম্মদ নবী (২২)। মঙ্গলবার রাতে বাকলিয়া থানাধীন শাহ আমানত সেতু এলাকা থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

র‌্যাব-৭ অধিনায়ক মশিউর রহমান জুয়েল জানান, চাকুরী দেয়ার কথা বলে ৭ জুন ওই কিশোরীকে বাড়ি থেকে নিয়ে আসার পর থেকে তার কোন খোঁজ না পেয়ে কিশোরীর বাবা র‌্যাবের কাছে অভিযোগ করে। পরে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ওই কিশোরীকে উদ্ধার ও চার জনকে গ্রেফতার করা হয়। উদ্ধারের পর মেয়েটি জানায়, একটি বাসায় বন্দি করে তাকে টানা ধর্ষণ করা হয়েছে।

news24bd.tv/এমিজান্নাত

পরবর্তী খবর

লাঞ্ছনার সাজা তিন থাপ্পড়!

অনলাইন ডেস্ক

লাঞ্ছনার সাজা তিন থাপ্পড়!

থানায় অভিযোগ করলে গ্রামে থাকতে না পারার ভয়ে মেয়ের শ্লীলতাহানির অভিযোগ নিয়ে গ্রামের মাতবরের কাছে যান নওগাঁর মহাদেবপুর উপজেলার চেরাগপুর ইউনিয়নের একটি গ্রামের কৃষক। সেই সালিশে অভিযুক্ত ব্যক্তিকে শাস্তি হিসেবে তিনটি থাপ্পড় ও ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। 

ভিক্টিমের স্বজনেরা অভিযোগ করেছেন, অভিযুক্ত ব্যক্তি ও তাঁর স্বজনেরা গ্রামের প্রভাবশালী। তাই এই বিচার মেনে নিতে হয়েছে তাদের।


আরও পড়ুন:

চলমান ‘বিধি নিষেধ’ আরও এক মাস বাড়ল

স্বাধীনতার মূল শর্ত হচ্ছে বাক, চিন্তা ও মত প্রকাশের স্বাধীনতা: ফখরুল

এখনও খোঁজ মেলেনি আবু ত্ব-হা আদনানের, যা বলছে পুলিশ

রোনালদোকাণ্ডের পর এবার টেবিল থেকে বিয়ারের বোতল সরালেন পগবা


অভিযুক্ত ব্যক্তির নাম খোদাবক্স (৪৪)। সালিস বৈঠকে বিচারের কাজ করেন তাঁর চাচাতো ভাই সেকেন্দারসহ গ্রামের মাতবর রাজ্জাক মণ্ডল। 
ভিক্টিমের স্বজনরা বলেন, শ্লীলতাহানির সত্যতা পাওয়ার পরও বৈঠকে দোষী ব্যক্তিকে উপযুক্ত সাজা দেওয়া হয়নি। বিচারের সিদ্ধান্ত মেনে নিতে জোর করে সাদা স্টাম্পে ছাত্রী ও বাবার স্বাক্ষর করে নেওয়া হয়েছে।

নবম শ্রেণির ছাত্রী ওই ভুক্তভোগীর  স্বজনেরা জানান, ১০ জুন বিকেলে কিশোরী বাড়িতে নিজের কক্ষে একাই ছিল। প্রতিবেশী খোদাবক্স ঘরে ঢুকে তার শ্লীলতাহানির চেষ্টা করেন। কিশোরীর চিৎকারে প্রতিবেশীরা এগিয়ে এলে খোদাবক্স পালিয়ে যান।

এ ঘটনায় কিশোরীর বাবা গ্রামের মাতবরের কাছে বিচার দাবি করেন। বৈঠকের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী মেয়েটির বাবাকে  বলা হয়, অভিযুক্তকে তিনটি থাপ্পড় মারতে পাশাপাশি তাকে ২০ হাজার টাকা জরিমানাও করা হয়।

news24bd.tv/এমিজান্নাত

পরবর্তী খবর

ভাঙচুরের অভিযোগে পরিমণির বিরুদ্ধে জিডি

অনলাইন ডেস্ক

ভাঙচুরের অভিযোগে পরিমণির বিরুদ্ধে জিডি

গুলশানের অল কমিউনিটি ক্লাব নায়িকা পরীমণির বিরুদ্ধে থানায় জিডি করেছে । গত ৮ জুন ক্লাবে ভাঙচুর চালিয়েছেন বলে অভিযোগ করা হয়েছে ক্লাব কর্তৃপক্ষের পক্ষ থেকে। আজ বুধবার  রাজধানীর গুলশান থানায় জিডিটি করা হয়েছে। 

বিস্তারিত আসছে…

 news24bd.tv/এমিজান্নাত

পরবর্তী খবর

তামাকবিরোধী প্রচারণা বেগবান করতে হবে: তথ্যমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক

তামাকবিরোধী প্রচারণা বেগবান করতে হবে: তথ্যমন্ত্রী

দেশকে তামাকমুক্ত করতে হলে তামাকবিরোধী প্রচারণা বেগবান করতে হবে বলে মন্তব্য করেছেন তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ।

আজ বেসরকারি গবেষণা ও অ্যাডভোকেসি সংগঠন ভয়েস ল’ রিপোর্টার্স ফোরামের সাংবাদিকবৃন্দের সাথে আয়োজিত ‘তামাক নিয়ন্ত্রণ আইন সংশোধনের প্রয়োজনীয়তা’ শীর্ষক কর্মশালায় এ মন্তব্য করেন তিনি।

হাছান মাহমুদ বলেন, আনুপাতিক হারে ধূমপায়ীর সংখ্যা কমলেও ২০৪০ এর মধ্যে দেশকে তামাকমুক্ত করার জন্য তা যথেষ্ট না। এ বিষয়ে সরকার বেশ কিছু কার্যকরী আইন প্রণয়ন করছে বলেও জানান তিনি।

আরও পড়ুন:


চলমান ‘বিধি নিষেধ’ আরও এক মাস বাড়ল

স্বাধীনতার মূল শর্ত হচ্ছে বাক, চিন্তা ও মত প্রকাশের স্বাধীনতা: ফখরুল

এখনও খোঁজ মেলেনি আবু ত্ব-হা আদনানের, যা বলছে পুলিশ

রোনালদোকাণ্ডের পর এবার টেবিল থেকে বিয়ারের বোতল সরালেন পগবা


অনুষ্ঠানে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ভয়েসের প্রকল্প সমন্বয়কারী জায়েদ সিদ্দিকী। প্রবন্ধে উঠে আসে বিশ্বে সর্বোচ্চ তামাক ব্যবহারকারী দেশের তালিকায় বাংলাদেশের নাম প্রথম দিকে এবং ৩৫ দশমিক ৩ শতাংশ প্রাপ্তবয়স্ক মানুষ তামাকে আসক্ত।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

বিএসএমএমইউ-কে স্বাস্থ্যসুরক্ষা সামগ্রী উপহার দিল নগদ

অনলাইন ডেস্ক

বিএসএমএমইউ-কে স্বাস্থ্যসুরক্ষা সামগ্রী উপহার দিল নগদ

করোনা মহামারি মোকাবিলায় সম্মুখসারির যোদ্ধা হিসেবে কাজ করছেন চিকিৎসক, নার্স ও স্বাস্থ্যসেবায় নিয়োজিত ব্যক্তিরা। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের স্বাস্থ্যসেবীদের ব্যক্তিগত সুরক্ষা বজায় রাখতে ৬০০ পিপিই, ১,০০০ স্যানিটাইজার ও ৪,০০০ কেএন নাইনটিফাইভ মাস্ক উপহার দিয়েছে ডাক বিভাগের মোবাইল ফাইন্যান্সিয়াল সার্ভিস ‘নগদ’।

আজ বুধবার সকালে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের সভাকক্ষে ‘নগদ’-এর নির্বাহী পরিচালক মো. সাফায়েত আলম নিজ প্রতিষ্ঠানের পক্ষে উপহার সামগ্রী হস্তান্তর করেন। এ সময় বিএসএমএমইউ-এর উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মো. শারফুদ্দিন আহমেদ উপহার সামগ্রী গ্রহণ করেন।

উপহার সামগ্রী গ্রহণের পর বিএসএমএমইউ-এর উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মো. শারফুদ্দিন আহমেদ বলেন, করোনার এই সংকটময় সময়ে ‘নগদ’ কর্তৃক বিএসএমএমইউ চিকিৎসক ও নার্সদের জন্য করোনা সুরক্ষা সামগ্রী প্রদান অত্যন্ত প্রশংসনীয় উদ্যোগ। এই সামগ্রীগুলো আমাদের অনেক সাহায্য করবে এবং নিঃসন্দেহে এগুলো চিকিৎসক ও নার্সদের সুরক্ষিত থাকতে সহায়তা করবে। ‘নগদ’ ভবিষ্যতেও এ ধরনের কর্মকাণ্ড অব্যাহত রাখবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন।

এ সময় ‘নগদ’-এর নির্বাহী পরিচালক মো. সাফায়েত আলম বলেন, করোনা সংকটকালে বিএসএমএমইউ-এর মতো এমন একটি মহতী প্রতিষ্ঠানের সাথে থাকতে পেরে ‘নগদ’-এর প্রতিটি সদস্য অত্যন্ত গর্বিত। তিনি ভবিষ্যতেও বিএসএমএমইউ-এর যেকোনো সহযোগিতার অঙ্গীকার করেন এবং ভবিষ্যতে যেকোনো জনকল্যাণমূলক কাজে ‘নগদ’-কে সম্পৃক্ত করার আহ্বান জানান।
 
উপহার সামগ্রী হস্তান্তর অনুষ্ঠানে বিএসএমএমইউ-এর পক্ষে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. মো. রফিকুল আলম, উপ-উপাচার্য (গবেষণা ও উন্নয়ন) অধ্যাপক ডা. মো. জাহিদ হোসেন, উপ-উপাচার্য (শিক্ষা) অধ্যাপক ডা. এ কে এম মোশাররফ হোসেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিচালক (হাসপাতাল) ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ডা. মো. নজরুল ইসলাম খান, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. মোহাম্মদ আতিকুর রহমান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

নগদ’-এর হেড অব এক্সটার্নাল অ্যাফেয়ার্স লেফটেন্যান্ট কর্নেল মো. কাওসার সওকত আলী (অব.), হেড অব এলইএ লেফটেন্যান্ট কর্নেল রশীদ (অব.), জেনারেল ম্যানেজার এলইএ ডিআইজি মাহবুব (অব.) ও ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার এক্সটার্নাল অ্যাফেয়ার্স স্কোয়াড্রন লিডার আসমা আলমগীর (অব.) এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

 news24bd.tv/এমিজান্নাত

পরবর্তী খবর