ফিলিস্তিনে হামলার বিচার চায় বাংলাদেশে
ফিলিস্তিনে হামলার বিচার চায় বাংলাদেশে

ফিলিস্তিনে হামলার বিচার চায় বাংলাদেশে

অনলাইন ডেস্ক

ফিলিস্তিনের গাজা উপত্যকায় ইসরায়েলের অবৈধ দখলদারি এবং আগ্রাসনের বিচার চেয়েছে বাংলাদেশ। এ জন্য জাতিসংঘের মানবাধিকার কাউন্সিলকে ব্যবস্থা নিতে আহ্বান জানান পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন।

তিনি বলেন, অধিকৃত ফিলিস্তিন এলাকায় আন্তর্জাতিক আইন লঙ্ঘনের জবাবদিহি ও বিচার নিশ্চিত করতে জাতিসংঘের মানবাধিকার কাউন্সিলের অবশ্যই ব্যবস্থা নেয়া উচিত।

বৃহস্পতিবার (২৭ মে) জাতিসংঘের মানবাধিকার পরিষদে ফিলিস্তিন প্রসঙ্গে আয়োজিত এক বিশেষ অধিবেশনে বক্তৃতায় এ কথা বলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

জাতিসংঘের মানবাধিকার পরিষদের বিশেষ এই অধিবেশনে বাংলাদেশ ছাড়াও ফিলিস্তিন, তুরস্ক, মিসর, কুয়েত, কাতার, মালয়েশিয়া, পাকিস্তান, নামিবিয়া, লিবিয়া ও তিউনিসিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রীরা বক্তব্য দেন।

মধ্যপ্রাচ্যের ওই অঞ্চলে ইসরায়েলের অবৈধ ও উস্কানিমূলক তৎপরতার কঠোর নিন্দা জানিয়ে পররাষ্ট্রমন্ত্রী আব্দুল মোমেন বলেন, ইসরায়েলের অবশ্যই অবৈধ দখলদারি, বসতি স্থাপন ও দখলের তৎপরতা বন্ধ করা উচিত। এসব তৎপরতার জন্য আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের দায়মুক্তি দেওয়া ও নীরবতা শুধু দখলদার বাহিনীকেই উৎসাহদান, যা দুঃখজনক।

অধিকৃত গাজা ও এর আশপাশের এলাকায় ফিলিস্তিনিদের ওপর নির্যাতন চালিয়ে আসছে ইসরায়েল। চলতি মাসেই টানা ১১ দিন বিমান থেকে বোমা নিক্ষেপ করে গাজায় ভয়াবহ ধ্বংসযজ্ঞ চালিয়েছে দেশটি। তাদের হামলায় দুই শতাধিক ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছেন।

গাজা ও এর আশপাশের সংঘাতপূর্ণ এলাকায় জবাবদিহি ও বিচার নিশ্চিত করার ওপর গুরুত্ব আরোপ করেন বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী। এ বিষয়ে আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের (আইসিসি) তদন্ত কমিশন গঠনের মাধ্যমে জাতিসংঘের মানবাধিকার পরিষদকে ভূমিকা রাখার সুপারিশ করেন তিনি। মধ্যপ্রাচ্য সংকটের স্থায়ী সমাধানের জন্য জাতিসংঘের সমন্বিত উদ্যোগ এবং নিরাপত্তা পরিষদের ভূমিকার ওপর জোর দেন বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

news24bd.tv/আলী 

;