৫০ বছরের অক্ষত লাশ উদ্ধার!

অনলাইন ডেস্ক

৫০ বছরের অক্ষত লাশ উদ্ধার!

গত মঙ্গল ও বুধবারের ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের তাণ্ডবে পটুয়াখালীর দশমিনা উপজেলার বিস্তীর্ণ জনপদ ও নদী তীরবর্তী এলাকা নদীতে বিলীন হয়ে যায়। সেই সঙ্গে নদীভাঙনে উপজেলার রনগোপালদী ইউনিয়নের চরঘূণি এলাকা বড়াগৌরঙ্গ নদী তীরের হাতেম আলী ফকির বাড়ির পারিবারিক কবরস্থান নদী ভাঙনের কবলে পড়ে। ইয়াসের প্রভাবে কবর ভেঙে প্রায় অর্ধশত বছর আগে দাফন করা একটি অক্ষত লাশ উদ্ধার নিয়ে সৃষ্টি হয়েছে চাঞ্চল্য। লাশ দেখতে বিভিন্ন এলাকা থেকে ভিড় জমিয়েছেন শত শত মানুষ। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে লাশের ছবিটি। তবে মৃত ব্যক্তির পরিচয় নিয়ে রয়েছে ধোঁয়াশা।

উদ্ধার করার পর পুনরায় দাফনের আগে দোয়া মিলাদে অংশ নিতে বিভিন্ন উপজেলা থেকে ছুটে আসেন বহু মানুষ। 

এ ঘটনার পরপরই সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়ে যায় অক্ষত লাশের ছবিটি। বিভিন্ন মানুষ ফেসবুকে ছবিটি আপলোড দিয়ে লাশকে মোমিন বান্দা দাবি করে বিভিন্ন লেখা পোস্ট করেন।

দশমিনা কেন্দ্রীয় মসজিদের ইমাম মাওলানা রেজাউল করিম জানান, ইমানি ব্যক্তি হলে তাদের একটি পশম পর্যন্ত মাটি খায় না। এরকম প্রমাণ আমরা আগে বহু দেখেছি। এ নিয়ে কোরআন হাদিসেও বলা আছে।

শনিবার (২৯ মে) সকালে ঘটনাস্থলে গিয়ে কথা হয় ওই বাড়ির রবিউল ইসলামের সাথে। তিনি জানান, লাশটি তাদের বাড়ির হাশেম ফকিরের। তার দাবি হাশেম ফকির ৪৫ থেকে ৪৬ বছর আগে মারা গিয়েছেন।

তিনি আরও জানান, হাশেম ফকির তাদের বাড়ির হাতেম আলী ফকির চিশতিয়ার ভক্ত ও সম্পর্কে চাচাতো ভাই ছিলেন। অন্যদিকে ওই এলাকার ৯০ বছরের বৃদ্ধ মো. হাবিবুর রহমান (চন্দন মাস্টার) জানান, মরহুম আইন উদ্দিনের ছেলে হাশেম ফকির। হাশেম ফকির সত্তরের বন্যার পর মারা গেছেন। হাশেম ফকিরের বাবা আইন উদ্দিন ফকির সত্তরের বন্যার আগে মারা গেছেন। হাশেম ফকিরের দুই ছেলে খালেক ও বারেক। তবে অক্ষত লাশটি হাশেমের কিনা আমি জানি না। ওই অক্ষত লাশটি হাশেমের বাবা আইন উদ্দিনের কিনা সেটাও নিশ্চিত নয় বলে তিনি জানান। তার বক্তব্য অনুযায়ী অক্ষত লাশটির পরিচয় নিয়ে ধোঁয়াশা রয়েছে। হাশেম ফকিরের ছেলে মো. খালেক জানান, লাশটি তার বাবার। তিনি ১৯৭৫ সালের দিকে মারা গেছেন।

স্থানীয়রা  জানান, জৈনপুরী পীর সাহেবের নির্দেশে অক্ষত লাশটির শরীরের কোনো অংশ খুলে না দেখে শুধু মিলাদ দিয়ে শনিবার সকালে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়েছে। 

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

ধর্ষণের অভিযোগ : বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়িতে কলেজছাত্রীর অবস্থান

অনলাইন ডেস্ক

ধর্ষণের অভিযোগ : বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়িতে কলেজছাত্রীর অবস্থান

বিয়ের কথা বলে এক কলেজ ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে সাইদুর রহমান নামে এক যুবকের বিরুদ্ধে। ভুক্তভোগী কলেজ ছাত্রী জানিয়েছে তাকে শারিরিক ভাবে নির্যাতন করে সে পালিয়েছে। তাই সে এখন বিয়ের দাবীতে প্রেমিকের বাড়ির সামনে গত তিনদিন ধরে অবস্থান করছেন।

ঢাকার ধামরাইয়ের শ্রীরামপুর এলাকায় এই ঘটনা ঘটে। স্থানীয় মাতুব্বররা কয়েক দফায় বৈঠক করে বৃহস্পতিবার (২৪ জুন) পর্যন্ত বিষয়টি সমাধান করতে পারেনি।

এলাকার মোহাস্মদ আলীর ছেলে গার্মেন্টসকর্মী সাইদুর রহমানের (২৫) পাশের গাংগুটিয়া ইউনিয়নের এক কলেজছাত্রীর সঙ্গে দুই বছরের বেশি সময় ধরে প্রেম। প্রেম চলাকালীন সাইদুর বিভিন্ন সময় বিভিন্নস্থানে ওই ছাত্রীকে নিয়ে ধর্ষণ করে। কিন্তু গত এক সপ্তাহ ধরে সাইদুরকে বিয়ের কথা বললে সে নানা টালবাহানা শুরু করে। এ কারণে ওই কলেজছাত্রী বিয়ের দাবি নিয়ে মঙ্গলবার (২২ জুন) সন্ধ্যায় প্রেমিক সাইদুরের বাড়িতে অবস্থান শুরু করে।

কলেজছাত্রী জানিয়েছে, সাইদুর আমাকে বিয়ের প্রলোভনে একাধিকবার ধর্ষণ করেছে। এখন যদি সে আমাকে বিয়ে না করে তাহলে আত্মহত্যা করা ছাড়া কোনো উপায় নেই আমার।

গাংগুটিয়া ইউপি সদস্য ইন্তাজ আলী জানিয়েছেন, বিষয়টি সমাধানের জন্য দফায় দফায় চেষ্টা চলছে।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

এবারও বাড়ছে ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা

অনলাইন ডেস্ক

এবারও বাড়ছে ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা

এবছরও বর্ষার শুরুতেই রাজধানীতে বাড়ছে ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা। গত পাঁচ মাসে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা ১০১ জন। আর জুনের ২৩ দিনেই রোগী মিলেছে ১৪৬ জন। 

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষণা বলছে, উত্তরা, গুলশান, বনানী, মোহাম্মদপুর, শাহবাগ, পরিবাগে এডিস মশার ঘনত্ব স্বাভাবিকের চেয়ে প্রায় দ্বিগুণ। এবার পরিস্থিতির অবনতির আশঙ্কা দেখা দিলেও এডিস নিয়ন্ত্রণে ব্যবস্থা নেয়ার কথা বলছে সিটি করপোরেশন।

চলতি মাসে অধিকাংশ দিনই রাজধানীতে বৃষ্টি হচ্ছে। পরিত্যক্ত টায়ার, বাড়ির ছাদ, ফুলের টব, নির্মাণাধীন ভবনসহ বিভিন্ন স্থানে জমছে পানি। এতে বিস্তার বাড়ছে এডিস মশার এবং ডেঙ্গু আক্রান্ত হচ্ছেন অনেকেই।

কীটতত্ত্ববিদরা বলছেন, গত বছরের চেয়ে এবার ডেঙ্গু পরিস্থিতির অবনতি হতে পারে।

news24bd.tv/এমিজান্নাত 

পরবর্তী খবর

বাবা হারালেন সাংবাদিক নাজিম উদ্দিন খান

নিজস্ব প্রতিবেদক

বাবা হারালেন সাংবাদিক নাজিম উদ্দিন খান

মোহাম্মদ লুৎফর রহমান খান

বেসরকারি টিভি চ্যানেল নিউজ টোয়েন্টিফোরের সাংবাদিক নাজিম উদ্দিন খানের বাবা মোহাম্মদ লুৎফর রহমান খান ইন্তেকাল করেছেন (ইন্নালিল্লাহি ওয়াইন্নাইলাইহি রাজিউন)।

বুধবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে মারা যান তিনি। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিলো ৬৫ বছর। তার মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছে  নিউজ টোয়েন্টিফোর পরিবার।

বুধবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে রাজধানীর জুরাইন মুরাদপুরে তার জানাজা নামাজ অনুষ্ঠিত হয়।  এসময় ৫২ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোহাম্মদ রুহুল আমিন, ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মোহাম্মদ গিয়াস উদ্দিন গেসু,  কদমতলী থানা আওয়ামী লীগের সদস্য মোহাম্মদ শিপন ইসলাম,  স্বেচ্ছা সেবকলীগ নেতা মোহাম্মদ সবুজ, মোহাম্মদ সজীব,  ৫২ নম্বর ওয়ার্ড বিএনপির সহ-সভাপতি মোহাম্মদ আরিফ, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ ছাত্রদলের সহ-সাধারণ সম্পাদক শাহরিয়ার আহমেদ রিংকুসহ স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিরা উপস্থিত ছিলেন। 

সাংবাদিক নাজিম উদ্দিন দেশের জনপ্রিয় স্যাটেলাইট টেলিভিশন নিউজ টোয়েন্টিফোরের অনলাইন বিভাগের সহ-সম্পাদক হিসেবে কর্মরত আছেন। তিনি তার বাবার আত্মার মাগফেরাতের জন্য সবার কাছে দোয়া চেয়েছেন।

মৃত্যুকালে মোহাম্মদ লুৎফর রহমান তিন ছেলে দুই নাতনিসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

এবার ত্বহার বেফাঁস মন্তব্য

অনলাইন ডেস্ক

এবার ত্বহার বেফাঁস মন্তব্য

তরুণ ধর্মীয় বক্তা আবু ত্বহা মুহাম্মদ আদনান এবার নিজের আইনজীবী সম্পর্কে বেফাঁস মন্তব্য করেছেন । নিখোঁজ থাকা কালে তরুণ এই বক্তা গাইবান্ধার ত্রিমোহনীতে একটি মসজিদে ইতেকাফে ছিলেন বলে গণমাধ্যমকে গত রোববার নিজের চেম্বারে বসে তথ্য দেন তারই আইনজীবী সোলায়মান আহমেদ সিদ্দিকী।

এ প্রসঙ্গে একটি অডিও বক্তব্যে ত্বহা বলেন, লোকটির (আইনজীবীর) কমনসেন্স নাই। ইতেকাফ রমজান মাস ছাড়া হয় না।

একই অডিও টেপে সাংবাদিকদের এড়িয়ে যাওয়া প্রসঙ্গে তার এক বন্ধুকে বলতে শোনা যায়, এমন কোনো প্রশ্নের সম্মুখীন হতে চাই না, যেটা আমাদের জন্য মঙ্গলজনক নয়। 

৮ দিন নিখোঁজ থাকার পর গত শুক্রবার বিকালে রংপুর নগরীর চার তলা এলাকায় তার প্রথমপক্ষের শ্বশুরবাড়ি থেকে পুলিশ ত্বহাকে উদ্ধার করে। একই রাতে দুই স্ত্রীর বিরোধের কারণে গাইবান্ধার ত্রিমোহনীতে আত্মগোপন করেছিলেন বলে রংপুরের চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেটের আদালতে জবানবন্দী দিলে আদালত নিজের জিম্মা ছেড়ে দেন। 

এর আগে ১০ জুন রাত থেকে নিখোঁজ ত্বহার মা ও দ্বিতীয় স্ত্রী রংপুর ও ঢাকায় আলাদা আলাদা জিডি করেন।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

স্ত্রীর পর স্বামীর মৃত্যু

অনলাইন ডেস্ক

স্ত্রীর পর স্বামীর মৃত্যু

ঝিনাইদহের শৈলকুপা উপজেলার বাগুটিয়া গ্রামে করোনায় আক্রান্ত হয়েছে ৪ ঘণ্টার ব্যবধানে স্বামী ও স্ত্রীর মৃত্যু হয়েছে। 

মঙ্গলবার (২২ জুন) সকাল সাড়ে ৮টার দিকে স্ত্রী ও বেলা ১২টার দিকে স্বামী মারা যান। এছাড়া করোনায় আক্রান্ত হয়েছে তাদের মেয়েও।

মৃতরা হলেন- শৈলকুপা উপজেলার বাগুটিয়া গ্রামের নুরুল ইসলাম (৬৫) ও তার স্ত্রী রাহেলা বেগম (৫৩)। 

ঝিনাইদহ ইসলামিক ফাউন্ডেশনের উপ-পরিচালক আব্দুল হামিদ বলেন, মৃত্যুর পর জেলা প্রশাসকের নির্দেশে শৈলকুপা উপজেলা দাফন কমিটির নেতৃত্বে স্থানীয় গোরস্থানে বিকেল ৪টার দিকে তাদের দাফন করা হয়।

শৈলকুপা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. রাশেদ আল মামুন বলেন, মৃত্যুর পর তাদের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষা করা হয়েছে। তাদের করোনা পজিটিভ এসেছে। সেই সঙ্গে তাদের মেয়ে লিয়া খাতুনেরও করোনা পজেটিভ এসেছে। সে বাড়িতে করোনার চিকিৎসা নিচ্ছে।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর