লাউডস্পিকারে আজান বন্ধের যে ব্যাখ্যা দিল সৌদি আরব
লাউডস্পিকারে আজান বন্ধের যে ব্যাখ্যা দিল সৌদি আরব

লাউডস্পিকারে আজান বন্ধের যে ব্যাখ্যা দিল সৌদি আরব

অনলাইন ডেস্ক

সৌদি আরবের মসজিদগুলোতে লাউডস্পিকার আওয়াজে আজানের সর্বোচ্চ সীমা বেঁধে দিয়েছে দেশটির প্রশাসন। এই সিদ্ধান্তের ব্যাখ্যা দিয়েছে সৌদি ধর্ম মন্ত্রণালয়।

গত সপ্তাহে দেশটির ধর্ম মন্ত্রণালয় এক ঘোষণায় জানায়, সব মসজিদের লাউডস্পিকারের আওয়াজ সর্বোচ্চ সীমার এক তৃতীয়াংশে সীমিত রাখতে হবে।

সে সময় দেশটির ইসলাম বিষয়ক মন্ত্রী আব্দুল লতিফ আল শেখ জানান, জনতার অভিযোগের প্রেক্ষিতেই এই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে।

কিন্তু এই পদক্ষেপেও জনগণের মাঝে নেতিবাচক প্রতিক্রিয়া দেখা দেয়।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির একটি প্রতিবেদনে বলা হয়, হ্যাশট্যাগ ব্যবহার করে রেস্তোরাঁ ও ক্যাফেতে উচ্চ শব্দে মিউজিক বাজানো নিষিদ্ধ করার দাবি ওঠার পরেই কর্তৃপক্ষ এ সিদ্ধান্ত নেয়।

লতিফ শেখ জানান, মসজিদের আজানের উচ্চ শব্দ নিয়ে যারা অভিযোগ করেছেন তাদের মধ্যে অনেক বাবা-মা আছেন, লাউডস্পিকারের শব্দে তাদের শিশুদের ঘুমের ব্যাঘাত ঘটে বলে জানায়।


আরও পড়ুন


জনসংখ্যা বাড়াতে চীনে তিন সন্তান নীতির অনুমোদন

করোনা পরীক্ষা নিয়ে জার্মানিতে দুর্নীতির অভিযোগ

নিরামিষাশী অভিনেতার নামে মাংসের দোকান দিয়ে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ

তিন মাস বেতন পাবেন না মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রীসহ অন্যান্য মন্ত্রীরা


রাষ্ট্রায়ত্ত টেলিভিশনে সম্প্রচারিত এক ভিডিওতে তিনি বলেন, যারা নামাজ পড়তে চান তাদের ইমামের ডাকের জন্য অপেক্ষা করার প্রয়োজন হয় না। আর যারা সরকারের এই পদক্ষেপের সমালোচনা করছেন তাদের ‘দেশের শত্রু’ অভিহিত করে এরা ‘জনমতকে উস্কাতে চায়’ বলে অভিযোগ করেন তিনি।

news24bd.tv / নকিব