জি সামিট কেন এখন গুরুত্বপূর্ণ?

অনলাইন ডেস্ক

জি সামিট কেন এখন গুরুত্বপূর্ণ?

এবার জি সামিটে প্রধান ইভেন্টে জি-৭ নেতারা দিনের সবচেয়ে বড় ইস্যুগুলো নিয়ে একসাথে আলোচনা করতে বসেন। প্রাক্তন সরকার যারা বছরের পর বছর ধরে শীর্ষ অবস্থানে ছিল।

তারা হুঁশিয়ারি দিয়েছে যে গ্লোবাল গেট-টোজেটারগুলি - যদিও এটি দৃষ্টিনন্দন অবস্থানে আছে তবে যে কোনও বিশেষ রাজনৈতিক জরুরি অবস্থা গুরুতর হলে তারা 'ওয়াফলেজে' অবতরণ করতে পারে।
সংশ্লিষ্ট প্রবীণ কূটনীতিকদের বিশ্বাস, এবারের জি সামিট  "এটি খুব অর্থবহ হবে।"
এই বছর করোনা বিষয়ে যে চুক্তি হতে যাচ্ছে, সেটার প্রভাব সুদূরপ্রসারী হতে পারে বলে প্রত্যাশা করা হচ্ছে। আর একটি শক্তিশালী বৈশ্বিক স্বাস্থ্যব্যবস্থা গড়ে তোলার মাধ্যমেই ভবিষ্যতের মহামারি থেকে রক্ষা পাওয়া যাবে।


আরও পড়ুন:

শিক্ষা প্রতিষ্ঠনের চলমান ছুটি বাড়ল

উপ-নির্বাচনে তিন আসনের আ.লীগের প্রার্থী ঘোষণা

১০০ কোটি টিকা দরিদ্র দেশগুলোতে দেবে বিশ্ব নেতারা

ফের ফিলিস্তিনি কিশোরকে হত্যা করল ইসরায়েল


এবার নতুন আমেরিকান রাষ্ট্রপতি প্রথমবারের মতো তুলনামূলকভাবে নতুন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীর সাথে সাক্ষাত করবেন।
এবং এই প্রথমবারের মতো বিশ্বের বৃহত্তম গণতন্ত্রের নেতারা এভাবে জড়ো হয়েছে যেহেতু তাদের দেশগুলি বাস্তবিকপক্ষেই জরুরি পরিস্থিতিতে পড়েছে।

news24bd.tv/এমিজান্নাত

পরবর্তী খবর

১০ আগস্ট থেকে বিদেশি মুসল্লিদের জন্য চালু হচ্ছে পবিত্র ওমরাহ

অনলাইন ডেস্ক

১০ আগস্ট থেকে বিদেশি মুসল্লিদের জন্য চালু হচ্ছে পবিত্র ওমরাহ

ফাইল ছবি

অবশেষে বিদেশি মুসল্লিদের জন্য চালু হচ্ছে পবিত্র ওমরাহ পালন। আগামী ১০ আগস্ট থেকে বিদেশিদের সৌদি আরবে গিয়ে ওমরাহ করার অনুমতি দেবে দেশটি।  

সৌদির হজ ও ওমরাহ বিষয়ক জাতীয় কমিটির সদস্য হানি আল-আমিরি বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, ওমরা পালনে বিদেশ থেকে আগতদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে করোনাভাইরাস সংক্রান্ত সব ধরনের সাবধানতা এবং নিয়ম-কানুন কঠোরভাবে মেনে চলতে হবে।

আরও পড়ুন:

চীনে বন্যা পরিস্থিতির অবনতি, মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৫৮

সূরা ফাতিহার ফজিলত

মেয়র সেলিনা হায়াৎ আইভীর মায়ের মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক

বিদেশি মুসল্লিদের ওমরা পালনকে কেন্দ্র করে দেশটির ৫০০টি কোম্পানি এবং প্রতিনিধিদের সকল ধরনের প্রস্তুতি গ্রহণের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। বিশ্বব্যাপী করোনা টিকা প্রদানের পরিস্থিতি দেখে মহররম থেকে ওমরা পালনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

news24bd.tv রিমু 

পরবর্তী খবর

পাথর পড়ে ব্রিজ ধসে প্রাণ গেল ৯ জনের (ভিডিও)

অনলাইন ডেস্ক

পাথর পড়ে ব্রিজ ধসে প্রাণ গেল ৯ জনের (ভিডিও)

ভারতের হিমাচল প্রদেশে ভূমিধসের কারণে পাহারের পাথর ধসে পড়ে ব্রিজের ওপর। এতে ব্রিজটি ভেঙে ৯ পর্যটক নিহত হয়। স্থানীয় সময় রোববার দুপুরে হিমাচল প্রদেশে এই দুর্ঘটনা ঘটে বলে ভারতীয় গণমাধ্যমগুলো জানায়।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ১২ জন যাত্রী নিয়ে হিমাচল প্রদেশের বাতসেরি ব্রিজ দিয়ে কিন্নৌরের দিকে যাচ্ছিল একটি গাড়ি। হঠাৎ পাহাড় থেকে ভূমিধসের কারণে বড় বড় পাথর ব্রিজের ওপর পড়তে শুরু করে। পাথরগুলো ব্রিজের ওপর থাকা গাড়িটিকে ধাক্কা দিলে এ হতাহতের ঘটনা ঘটে। পাথরের আঘাতে ব্রিজটি পুরোপুরি ভেঙে যায়।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ওই সময়কার ভিডিও ভাইরাল হয়েছে।ঘটনাস্থলে উদ্ধার কাজ শুরু করেছেন ইন্দো-টিবেট বর্ডার পুলিশের (আইটিবিপি) সদস্যরা।

এই দুর্ঘটনাকে ‘হৃদয় বিদারক’ হিসেবে অভিহিত করেছেন হিমাচল প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী জয়রাম ঠাকুর। হতাহতদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন তিনি। সেখানে উদ্ধার তৎপরতা শুরু হয়েছে বলেও জানান মুখ্যমন্ত্রী।

এই ঘটনায় শোক প্রকাশ করে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি আহতদের দ্রুত সুস্থতা কামনা করেছেন।

ভিডিও দেখতে ক্লিক করুন

পরবর্তী খবর

দার্জিলিং, সিকিমে ও গ্যাংটকে শক্তিশালী ভূমিকম্প

অনলাইন ডেস্ক

দার্জিলিং, সিকিমে ও গ্যাংটকে শক্তিশালী ভূমিকম্প

রিখটার স্কেলে ৪ মাত্রার ভূমিকম্প আঘাত হেনেছে ভারতের বেশ কিছু অঞ্চলে। আজ রোববার স্থানীয় সময় রাত আটটা নাগাদ ভূমিকম্পে কেঁপে উঠে উত্তর-পূর্ব ভারতের দার্জিলিং, সিকিমে ও গ্যাংটক!

তবে এখনও পর্যন্ত ক্ষয়ক্ষতির কোনো খবর পাওয়া যায়নি।

যদিও আচমকা কেঁপে ওঠায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে পাহাড়বাসীর মধ্যে। 

জানা গেছে, পূর্ব সিকিমের কাছে কম্পনের উৎপত্তিস্থল। রাজধানী গ্যাংটক থেকে ১২ কিলোমিটার পশ্চিমে এর কেন্দ্র। সেখান থেকেই কেঁপে উঠেছে মাটি।

ভারতীয় গণমাধ্যম বলছে,  রোববার সাড়ে ৮টা নাগাদ আচমকা কেঁপে ওঠে দার্জিলিং, সিকিমের পার্বত্য অঞ্চল। প্রায় ৫ সেকেন্ড ধরে কম্পন অনুভূত হয়। পাহাড়ের বাসিন্দারা বেশ ভালই তা টের পেয়েছেন।

আরও পড়ুন:


ডিএমপির ৯ পুলিশ কর্মকর্তার পদায়ন 

ফুলবাড়িয়ায় হাতকড়াসহ পালানো আসামি সাড়ে পাঁচ ঘণ্টা পর গ্রেপ্তার

পিরোজপুরে প্রতিবন্ধী কিশোরীকে গণধর্ষণ, গ্রেপ্তার ২

 news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

মার্কিন সেনাদের প্রয়োজন নেই: ইরাকি প্রধানমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক

মার্কিন সেনাদের প্রয়োজন নেই: ইরাকি প্রধানমন্ত্রী

উগ্র সন্ত্রাসী গোষ্ঠী দায়েশের বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্য মার্কিন সেনাদের তার দেশে প্রয়োজন নেই বলে জানিয়েছেন ইরাকের প্রধানমন্ত্রী মুস্তাফা আল-কাজেমি।

তিনি বলেছেন, মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের ব্যাপারে আনুষ্ঠানিক সময়সীমা ঘোষণা হবে চলতি সপ্তাহে মার্কিন কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠকের ফলাফলের পর।

বার্তা সংস্থা এপি-কে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে মুস্তাফা আল-কাজেমি এসব কথা বলেছেন।

তার এ সাক্ষাৎকার আজ (রোববার) প্রকাশিত হয়েছে।

আগামীকাল হোয়াইট হাউসে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রী কাজেমির বৈঠক করার কথা রয়েছে।

এর আগে এপি-কে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি এসব কথা বললেন।

ইরাকি প্রধানমন্ত্রী বলেন, প্রশিক্ষণ এবং সামরিক গোয়েন্দা তথ্য সংগ্রহের জন্য ইরাক এখনো আমেরিকার কাছে সহযোগিতা চায় তবে কম্ব্যাট ট্রুপ প্রত্যাহার করার ব্যাপারে আমেরিকার কাছ থেকে সুনির্দিষ্ট সময়সীমা চাইবে। গত এপ্রিল মাসে ওয়াশিংটন এবং বাগদাদের মধ্যে আলোচনার পর আমেরিকা ইরাক থেকে সেনা প্রত্যাহারের কথা ঘোষণা করেছিল।

ইরাকের মাটি থেকে মার্কিন সেনাদের বহিষ্কারের ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রী মুস্তাফা আল- কাজেমি সরকারের ওপর দিন দিন চাপ বাড়ছে বিশেষ করে দেশটির প্রতিরোধকামী সংগঠনগুলো এই চাপ সৃষ্টি করেছে।

এসব সংগঠন মনে করে মার্কিন সেনাদের উপস্থিতির কারণে ইরাকের ভেতরে অনেক সমস্যা তৈরি হচ্ছে। বহু সংগঠন প্রকাশ্যে বলেছে, মার্কিন সেনারা ইরাকের স্বার্থ বাদ দিয়ে ইসরাইলের স্বার্থ রক্ষা করছে।

আরও পড়ুন:


ডিএমপির ৯ পুলিশ কর্মকর্তার পদায়ন 

ফুলবাড়িয়ায় হাতকড়াসহ পালানো আসামি সাড়ে পাঁচ ঘণ্টা পর গ্রেপ্তার

পিরোজপুরে প্রতিবন্ধী কিশোরীকে গণধর্ষণ, গ্রেপ্তার ২

 news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

চীনে আঘাত হেনেছে ইন-ফা

অনলাইন ডেস্ক

চীনে আঘাত হেনেছে ইন-ফা

চীনের সাংহাইয়ে দক্ষিণ উপকূলে টাইফুন ‘ইন-ফা’ আঘাত হেনেছে। আজ রবিবার এটি উপকুলে আঘাত হানে এটি। কর্তৃপক্ষ এ টাইফুন মোকাবিলায় বিমান ও রেল চলাচল বাতিল ঘোষণা করেছে। পাশাপাশি স্থানীয় জনসাধারণকে বাড়ির ভিতরে থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

দেশটির জাতীয় আবহাওয়ার বরাত দিয়ে রাষ্ট্রীয় টিভি জানিয়েছে, টাইফুনটি ঝিজিয়াং প্রদেশের ঝোশান শহরে আঘাত হেনেছে। এতে ২৫০-৩৫০ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হতে পারে বলে বলা হয়েছে। আবহাওয়ার পূর্বাভাসে প্রয়োজন ছাড়া লোকজনকে বাইরে যেতে নিষেধ করা হয়েছে। টাইফুনে বাতাসের গতিবেগ ছিল ঘণ্টায় ১৫৫ কিলোমিটার (৯৫ মাইল)। অনেক গাছের ডালপালা ভেঙে পড়ছে। এতে কোনো প্রাণহানির খবর পাওয়া যায়নি।

সূত্র : সিএনএন

news24bd.tv/এমিজান্নাত

পরবর্তী খবর