এখনও খোঁজ মেলেনি আবু ত্ব-হা আদনানের, যা বলছে পুলিশ

অনলাইন ডেস্ক

এখনও খোঁজ মেলেনি আবু ত্ব-হা আদনানের, যা বলছে পুলিশ

ইসলামী বক্তা আবু ত্ব-হা আদনান নিখোঁজের ৬ দিনেও মেলেনি সন্ধান। বৃহস্পতিবার (১০ জুন) দিবাগত রাত থেকে তিনি নিখোঁজ রয়েছেন বলে অভিযোগ করেছে তাঁর পরিবার। তবে পুলিশ কর্মকর্তাদের বিশ্বাস খুব শিগগিরই আদনানের নিখোঁজ রহস্যের জট খুলবে।

এদিকে নিখোঁজ আবু ত্ব-হা আদনানের সন্ধান চেয়ে বিবৃতি দিয়েছে আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থা অ্যামেনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল। সোমবার (১৪ জুন) অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল সাউথ এশিয়ার ভেরিফায়েড টুইটার থেকে এ বিবৃতি দেওয়া হয়।

আদনানের স্বজন ও প্রতিবেশীদের ভাষ্য, একসময় ভালো ক্রিকেট খেলতেন আদনান। রংপুরের ক্রিকেট অঙ্গনে সবার পরিচিত মুখ ছিলেন তিনি। রংপুর লায়ন্স স্কুল অ্যান্ড কলেজের গণ্ডি পেরিয়ে ভর্তি হন রংপুর কারমাইকেল কলেজে। সেখান থেকে দর্শনে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর করেন তিনি।

স্নাতকে পড়ার সময় থেকেই ধর্মের প্রতি তাঁর ঝোঁক বাড়তে থাকে। বাবার মৃত্যুর পর রংপুর নগরীর সেন্ট্রাল রোডের নানার বাড়িতে বড় হয়েছেন তিনি। ৩১ বছর বয়সী আদনান ইসলাম ধর্মের প্রচুর বই পড়তেন এবং গবেষণা করতেন। দর্শনে স্নাতকোত্তর করা আদনান অল্প দিনেই হয়ে ওঠেন একজন ভালো ইসলামী বক্তা। তিনি উগ্রবাদকে সমর্থন করতেন না বলেও দাবি করেছেন স্বজনরা।

আরও পড়ুন


দেশের নদীবন্দরে সতর্কতা

সংসদে এমপি চুন্নু বললেন, নাসির ‘ভালো লোক’

বিশ্বে করোনা আক্রান্তের সর্বশেষ তথ্য

গাজায় ফের ইসরাইলের হামলা


গত ১০ জুন বিকেলে ঢাকা যাওয়ার কথা বলে বাসা থেকে বের হন আদনান। রাত আড়াইটার দিকে স্ত্রী হাবিবা নূরের সঙ্গে মোবাইল ফোনে শেষ কথা হয় তাঁর। আদনানের সঙ্গে থাকা আব্দুল মুহিত, মোহাম্মদ ফিরোজ ও গাড়িচালক আমির উদ্দিনও নিখোঁজ। তাঁদের সবার মোবাইল ফোনও বন্ধ।

আদনানের মা আজেদা বেগম বলেন, ‘রংপুর মেট্রোপলিটন কোতোয়ালি থানায় জিডি করা হয়েছে। কিন্তু আমার ছেলের সন্ধানে পুলিশের কোনো তৎপরতা পাচ্ছি না'

রংপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের উপপুলিশ কমিশনার (অপরাধ) আবু মারুফ হোসেন বলেন, ‘ঘটনাটি ঘটেছে ঢাকায়। বাড়ি রংপুরে হওয়ায় আদনানের মায়ের করা জিডির সূত্র ধরে অনুসন্ধান চলছে। আশা করি শিগগিরই এই রহস্যের জট খুলবে।’

news24bd.tv আহমেদ

পরবর্তী খবর

ডেঙ্গু পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বাইরে যায়নি: তাপস

অনলাইন ডেস্ক

ডেঙ্গু পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বাইরে যায়নি: তাপস

ডেঙ্গু পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বাইরে যায়নি বলে মন্তব্য করেছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস। 

তিনি বলেন, ২০১৯ সালের ডেঙ্গুর তুলনায় এখন পর্যন্ত পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। তারপরও আমরা সব ধরনের প্রস্তুতি নিয়েছি। 

আজ বিকেলে ডিএসসিসির নগর ভবনে মেয়র মোহাম্মদ হানিফ মিলনায়তনে এক সভায় তিনি এসব কথা বলেন তিনি।

মেয়র তাপস বলেন, আজকের এই মিটিংয়ে কাউন্সিলরদের নিয়ে আলোচনা করেছি। আগামীকাল থেকে মশা নিধনে আরও জোরালো কার্যক্রম নেয়া হবে।

তিনি বলেন, এখন প্রতিটি ওয়ার্ডকে ছোট ছোট এলাকা হিসেবে চিহ্নিত করা হবে। এসব এলাকায় নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট, কাউন্সিলর, মশক সুপারভাইজাররা অভিযান চালাবেন। এছাড়া ডেঙ্গু পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণে আগামীকাল সোমবার (২ আগস্ট) নগর ভবনে কন্ট্রোল রুম স্থাপন করা হবে।

আরও পড়ুন:


সঙ্কটে মানুষের পাশে দাঁড়ালে বঙ্গবন্ধুর আত্মা শান্তি পাবে: কাদের

৪১তম বিসিএস প্রিলিমিনারির ফল প্রকাশ

বিশ্বাস করতে হবে আমরা টি-টোয়েন্টিতেও ভালো দল: ডমিঙ্গো


‘সরকারি আবাসনে এডিস মশা বেশি’ উল্লেখ করে তিনি বলেন, ডিএসসিসি এলাকায় অনেক সরকারি আবাসন রয়েছে। এসব আবাসনে এডিসের প্রজনন বেশি। তাই সংশ্লিষ্টদের এ বিষয়ে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। আশা করি, আগামী ১৫ আগস্টের আগেই মশা নিয়ন্ত্রণে আনতে পারব।

এডিস মশা নিয়ন্ত্রণে জনসচেতনতামূলক এ মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় সরকারমন্ত্রী তাজুল ইসলাম।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় মৃত্যু-শনাক্ত বাড়ল

নিজস্ব প্রতিবেদক

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় মৃত্যু-শনাক্ত বাড়ল

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ২৩১ জন।  এ নিয়ে দেশে করোনায় মোট মৃত্যুর সংখ্যা ২০ হাজার ৯১৬ জন হয়েছে।

এ সময়ে নতুন করে করোনা শনাক্ত হয়েছে ১৪ হাজার ৮৪৪ জন। এ নিয়ে দেশে মোট শনাক্তের সংখ্যা বেড়ে ১২ লাখ ৬৪ হাজার ৩২৮ জন হয়েছে।

আজ রোববার বিকালে স্বাস্থ্য অধিদফতরের এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এরআগে গতকাল করোনা ভাইরাস শনাক্ত হয়েছিল ৯ হাজার ৩৬৯ জন এবং মৃত্যু হয়েছিল ২১৮ জন।

আরও পড়ুন:


ইতিহাসের নিষ্ঠুরতম রাজনৈতিক হত্যাকাণ্ড ১৫ আগস্ট: কাদের

৬ কোটিতে অ্যাপার্টমেন্ট কিনলেন দিশা

বিভিন্ন অপরাধে জড়িত থাকায় ২ বছরে রোহিঙ্গা ২২০০ গ্রেপ্তার: আইজিপি

বিশ্বাস করতে হবে আমরা টি-টোয়েন্টিতেও ভালো দল: ডমিঙ্গো


news24bd.tv / কামরুল 

পরবর্তী খবর

বন্ধু দিবসে প্যারাস্যুট অ্যাডভান্সড এর ক্যাম্পেইন

অনলাইন ডেস্ক

বন্ধু দিবসে প্যারাস্যুট অ্যাডভান্সড এর ক্যাম্পেইন

আন্তর্জাতিক বন্ধু দিবস উপলক্ষে একটি বিশেষ ক্যাম্পেইন নিয়ে এসেছে দেশের জনপ্রিয় চুলের তেল-এর ব্র্যান্ড ম্যারিকো বাংলাদেশ লিমিটেড-এর প্যারাসুট অ্যাডভান্সড হেয়ার অয়েল। প্যারাসুট অ্যাডভান্সড মজবুত চুল, মজবুত বন্ধন ফ্রেন্ডশিপ ডে ক্যাম্পেইন-এর সাথে থাকছেন স্বনামধন্য অভিনেত্রী মুমতাহিনা চৌধুরী টয়া এবং মাসুমা রহমান নাবিলা।

এই বন্ধু দিবসে প্যারাস্যুট অ্যাডভান্সড ভোক্তাদের দিচ্ছে একটি পার্সোনালাইজড ছবি এবং ব্র্যান্ডের সোশ্যাল মিডিয়া পেইজে ফিচারড হওয়ার সুযোগ।
 
ক্যাম্পেইন এর অংশ হিসেবে টয়া তার বন্ধু নাবিলার জন্য প্যারাসুট অ্যাডভান্সড-এর পক্ষ থেকে একটি পারফেক্ট সারপ্রাইজিং গিফট খুঁজে পাবেন। সেখানে থাকবে প্যারাসুট অ্যাডভান্সড-এর পক্ষ থেকে একটি স্পেশাল ম্যাসেজ সহ নাবিলা ও টয়া’র একটি ডিজিটাল স্পেশাল ছবি। একইভাবে, ক্যাম্পেইনে অংশগ্রহণকারীরাও প্যারাসুট অ্যাডভান্সড-এর ফেসবুক পেইজের ইনবক্সে বা ক্যাম্পেইন অ্যানাউন্সার স্ট্যাটিক ইমেজ সেকশনে তাদের ছবি শেয়ার করে একটি পার্সোনালাইজড ছবি ও বন্ধুদের সাথে ব্র্যান্ডের পেইজে ফিচারড হওয়ার সুযোগও পেতে পারেন।
 
ম্যারিকো বাংলাদেশ লিমিটেড-এর ম্যানেজিং ডিরেক্টর আশীষ গোপাল বলেন, প্যারাসুট অ্যাডভান্সড সবসময় মজবুত বন্ধনের অর্থ বহন করে। আর এবারের এই ক্যাম্পেইনটি বন্ধুত্বের নিবিড় বন্ধন প্রদর্শনের উদ্দেশ্যেই চালু হয়েছে। ক্যাম্পেইনটির মাধ্যমে এমন একটি প্লাটফর্ম তৈরি হয়েছে যা সকলকে বন্ধুত্বের এই বন্ধন উদযাপন করতে উৎসাহিত করবে।
 
ক্যাম্পেইনটির উদ্দেশ্যে নাবিলা বলেন, “এমন এক উদ্যোগের সাথে যুক্ত হতে পারার অনুভূতিটি খুবই চমৎকার। আমি প্যারাসুট অ্যাডভান্সড-কে এমন এক বিশেষ উদ্যোগ গ্রহণ করার জন্য অভিনন্দন জানাচ্ছি। শুধু একটি বিশেষ দিনে নয়, বন্ধুত্ব দিবসের এই ক্যাম্পেইন সকলকে প্রতিদিন বন্ধুত্বের এই দৃঢ় বন্ধন উদযাপন করতে উৎসাহিত করবে।”
 
ক্যাম্পেইন সম্পর্কে অনুভূতি প্রকাশ করে টয়া জানান, প্যারাসুট অ্যাডভান্সড-এর সাথে বহু বছর ধরে যুক্ত থাকতে পেরে আমি আনন্দিত। এই বছরের বন্ধুত্ব দিবসের ক্যাম্পেইনটি আসলেই খুব স্পেশাল। এই ক্যাম্পেইনে অংশগ্রহণকারীদের সুন্দর স্মৃতিময় ছবি ও ম্যাসেজ দেখার জন্য অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছি। এই উদ্যোগটি অবশ্যই সবাইকে তাদের বন্ধুদের সাথে দৃঢ় বন্ধনের কথা স্মরণ করিয়ে দিবে এবং বন্ধুত্বকে আরও মজবুত করে তুলতে অনুপ্রাণিত করবে।

news24bd.tv/এমিজান্নাত 

পরবর্তী খবর

করোনা রোগীদের জন্য হাসপাতালে শয্যা বাড়াতে রিট

অনলাইন ডেস্ক

করোনা রোগীদের জন্য হাসপাতালে শয্যা বাড়াতে রিট

করোনা সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় প্রত্যেক সরকারি-বেসরকারি হাসপাতালে আক্রান্ত রোগীদের জন্য শয্যা বাড়ানোর নির্দেশনা চেয়ে হাইকোর্টে রিট করা হয়েছে।

মানবাধিকার সংগঠন আইন ও সালিশ কেন্দ্রের পক্ষে আজ রোববার হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় এ রিট করা হয়।

রিটে বিবাদী করা হয়েছে স্বাস্থ্য সচিব ও স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালকসহ সংশ্লিষ্টদের।
 
আদালতে রিটের পক্ষে শুনানিতে থাকবেন আইনজীবী জেড আই খান পান্না, সৈয়দা নাসরীন ও শাহীনুজ্জামান।

আইনজীবী শাহীনুজ্জামান জানান আবেদনে সরকারি-বেসরকারি সব হাসপাতালে করোনা রোগীদের জন্য শয্যা বাড়ানো এবং যারা সরকারি হাসপাতালে ভর্তি হতে পারেননি তাদের বেসরকারি হাসপাতালে দ্রুত ভর্তি করানোর নির্দেশনা জারি করতে হবে।


আরও পড়ুন

নিলামে উঠছে প্রিন্সেস ডায়ানার বিয়ের কেক!

দূরপাল্লার বাসের জন্য ছাড় দিবে পুলিশ: এনায়েত উল্যাহ

পোশাক কারখানা খুলে দেওয়ায় সংক্রমণ আরও বাড়বে : স্বাস্থ্যমন্ত্রী

বাড়ানো হয়েছে লঞ্চ চলাচলের সময়


news24bd.tv/এমিজান্নাত 

পরবর্তী খবর

হলদিবাড়ি-চিলাহাটি রেলপথে মালবাহী ট্রেন চলাচল শুরু

লাকমিনা জেসমিন সোমা

হলদিবাড়ি-চিলাহাটি রেলপথে মালবাহী ট্রেন চলাচল শুরু

বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে আজ থেকে হলদিবাড়ি-চিলাহাটি রেলপথ দিয়ে নিয়মিত মালবাহী ট্রেন চলাচল শুরু হয়েছে। ভারতীয় রেলওয়ে আজ উত্তর-পূর্ব সীমান্ত রেলওয়ের ডামডিম স্টেশন থেকে পাথর বোঝাই প্রথম মালবাহী ট্রেন বাংলাদেশে প্রেরণ করেছে।

১৯৪৭ সালে দেশভাগের পর ভারত ও তৎকালীন পূর্ব পাকিস্তানের মধ্যে (১৯৬৫ পর্যন্ত) সাতটি রেল সংযোগ চালু ছিল। বর্তমানে ভারত ও বাংলাদেশের মধ্যে চারটি রেল সংযোগ চালু রয়েছে। এগুলো হলো- পেট্রাপোল (ভারত)- বেনাপোল (বাংলাদেশ), গেদে (ভারত)- দর্শনা (বাংলাদেশ), সিংহাবাদ (ভারত)- রহনপুর (বাংলাদেশ), রাধিকাপুর (ভারত)- বিরল (বাংলাদেশ)। হলদিবাড়ি- চিলাহাটি রেল সংযোগ রুটটি ১৯৬৫ সাল পর্যন্ত কার্যকর ছিল।  

ভারত ও বাংলাদেশ দুই দেশের প্রধানমন্ত্রীই উভয় দেশের মধ্যে ১৯৬৫ সাল পূর্ববর্তী সমস্ত রেল সংযোগ পুনরায় কার্যকর করতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। এ কারণে, রেল সংযোগটিকে পুনঃস্থাপিত করার কাজ হাতে নেয় উভয় দেশের রেলপথ মন্ত্রণালয়।

পুনঃস্থাপনের পর, ২০২০ সালের ১৭ ডিসেম্বর প্রধানমন্ত্রী পর্যায়ের ভার্চুয়াল দ্বিপাক্ষিক শীর্ষ সম্মেলনের সময় ভারত ও বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীরা যৌথভাবে হলদিবাড়ি (ভারত) এবং চিলাহাটি (বাংলাদেশ) রেল সংযোগটি উদ্বোধন করেন।

হলদিবাড়ি-চিলাহাটি রেল সংযোগটি ভারত ও বাংলাদেশের মধ্যকার পঞ্চম রেল সংযোগ যা আজ থেকে কার্যকর হচ্ছে।

এই রেলপথ দিয়ে ভারত থেকে বাংলাদেশে রপ্তানিযোগ্য পণ্যের মধ্যে রয়েছে পাথর ও বোল্ডার, খাদ্যশস্য, তাজা ফল, রাসায়নিক সার, পেঁয়াজ, মরিচ, রসুন, আদা, ফ্লাই অ্যাশ, ক্লে, চুনাপাথর, কাঠ ও টিম্বার ইত্যাদি। বাংলাদেশ থেকে ভারতে সকল রপ্তানিযোগ্য পণ্যই অনুমোদিত।

আরও পড়ুন:


সঙ্কটে মানুষের পাশে দাঁড়ালে বঙ্গবন্ধুর আত্মা শান্তি পাবে: কাদের

৪১তম বিসিএস প্রিলিমিনারির ফল প্রকাশ

বিশ্বাস করতে হবে আমরা টি-টোয়েন্টিতেও ভালো দল: ডমিঙ্গো


চালু হওয়া এই রেল সংযোগ ভারত-বাংলাদেশ রেল যোগাযোগ এবং দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্যকে শক্তিশালী করবে। এটি আঞ্চলিক বাণিজ্য সম্প্রসারণ ও এ অঞ্চলের অর্থনৈতিক ও সামাজিক উন্নয়নকে গতিশীল করতে প্রধান বন্দর ও স্থল বন্দরগুলোতে রেল নেটওয়ার্কের প্রবেশাধিকার বৃদ্ধি করবে। 

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর