অবৈধ সুদের কারবারকে বৈধতা দিতে ব্যস্ত কর্মকর্তারা, দায়সারা তদন্ত প্রতিবেদন

বাবুল আখতার রানা, নওগাঁ

অবৈধ সুদের কারবারকে বৈধতা দিতে ব্যস্ত কর্মকর্তারা, দায়সারা তদন্ত প্রতিবেদন

নওগাঁর পার্শ্ববর্তি বগুড়ার আদমদীঘির সান্তাহারে শুধুমাত্র পৌরসভার ট্রেড লাইসেন্সে নিয়ে অনুমোদনহীন ব্যবসায়িক সমিতির আড়ালে উচ্চ হারের সুদের রমরমা ব্যবসা করে আসছে নাজমুল নামের এক প্রভাবশালী ব্যক্তি।

এই সংক্রান্ত বিষয়ে সংবাদ প্রকাশ করায় দাদন ব্যবসায়ী নাজমুল হোসেন ও তার সহযোগি জালাল উদ্দিন বাড়িতে গিয়ে প্রকাশ্যে সাংবাদিক নেহাল আহমেদ প্রান্তকে প্রাণনাশের হুমকি-ধামকি প্রদান করে। এ ঘটনায় প্রান্ত বাদি হয়ে গত ২৫ মার্চ সন্ধ্যায় পুলিশ ও ২৬ মার্চ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবর লিখিত অভিযোগ করা হয়।

অভিযোগ পাওয়ার পর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা উপজেলা সমবায় কর্মকর্তাকে তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিল করার নির্দেশ দেন। পরবর্তিতে সমবায় কর্মকর্তা দীর্ঘদিন পর তদন্ত শেষে একটি দায়সারা প্রতিবেদন দাখিল করেন। কোন ব্যবস্থা গ্রহণ না করেই অভিযুক্ত ব্যক্তির সঙ্গে আতাত করে কর্মকর্তারা অবৈধ সুদের কারবারকে বৈধতা দিতেই দীর্ঘ কালক্ষেপন করে পৌরসভাকে দায়ী করে দায়সারা একটি প্রতিবেদন দাখিল করেছে বলে মনে করছেন অনেকেই।

অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, সান্তাহার পৌর শহরের নিচ পোঁওতা গ্রামের আব্দুল আলীমের ছেলে নাজমুল হোসেন (৩২) সান্তাহার পৌরসভা থেকে অর্থের বিনিময়ে তামিম সঞ্চয় ও ঋণদান প্রতিষ্ঠান নামে একটি ট্রেড লাইসেন্স সংগ্রহ করে। এরপর পৌরসভা থেকে দেওয়া অবৈধ লাইসেন্স দিয়ে আকর্ষনীয় বই ছাপিয়ে ট্রেড সনদের নাম ব্যবহার না করে শুধুমাত্র ব্যবসায়িক সমিতি নাম দিয়ে মাসিক শতকরা ৩০ টাকা হারে সুদ আদায় করে আসছে।

এমন অভিযোগের সূত্র ধরে দীর্ঘ তদন্ত শেষ করে কয়েকজন গণমাধ্যকর্মী গত মার্চ মাসে দেশের বিভিন্ন পর্যায়ের গণমাধ্যমে একটি প্রতিবেদন করেন। এরই জের ধরে গত ২৫ মার্চ দুপুরে নাজমুল ও তার সহযোগি জালাল উদ্দিন সাংবাদিক প্রান্তের নিচ পোঁওতা গ্রামের বাড়িতে গিয়ে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করাসহ প্রাণনাশের বিভিন্ন হুমকি-ধামকী দিয়ে আসে। এরপর প্রান্ত থানা পুলিশ ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবর লিখিত অভিযোগ প্রদান করে। কিন্তু অভিযুক্ত নাজমুলের সঙ্গে আতাত করে প্রশাসনের উর্দ্ধতন কর্তাব্যক্তিরা নীরব হয়ে যাওয়ায় সেই অভিযোগ আর আলোর মুখ দেখিনি। কিন্তু দীর্ঘদিন পর উপজেলা সমবায় কর্মকর্তা একটি দায়সারা প্রতিবেদন সম্প্রতি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবর দাখিল করেছেন।

আরও পড়ুন


আরও এক দফা ‘লকডাউন’ বাড়ার আভাস!

আবু ত্ব-হা আদনানের বিষয়টি গুরুত্ব দিয়ে দেখা হচ্ছে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

অটোরিকশার ভেতরেই ওই তরুণীকে ধর্ষণ

বাংলাদেশ সফরে অস্ট্রেলিয়ার চূড়ান্ত দল ঘোষণা


উপজেলা সমবায় ও তদন্তকারী কর্মকর্তা আব্দুস সালাম বলেন, আমি নির্দেশনা মোতাবেক তদন্ত করেছি। তদন্ত করতে গিয়ে আমি যা পেয়েছি তা হলো নাজমুলের একমাত্র পৌরসভার ট্রেড লাইসেন্স ছাড়া আর কোন কাগজ নেই। কিন্তু আর্থিক লেনদেনের বিষয়ে পৌরসভার কি এমন সনদপত্র দেওয়ার নিয়ম কতটুকু আছে কিংবা কেউ পৌরসভার এমন সনদপত্র নিয়ে কি আর্থিক লেনদেন করার বিধান কতটুকু আছে সেই বিষয়ে তদন্তকারী কর্মকর্তা মন্তব্য করতে রাজি নন। এছাড়াও সমবায় অধিদপ্তরের অনুমতি ছাড়া নাজমুল অবৈধ সুদের কারবার করে আসছে সেক্ষেত্রে নাজমুলের বিরুদ্ধে সমবায় বিভাগের কোন আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের সুযোগ আছে কি না সে বিষয়ে তিনি বলেন নাজমুলের বিষয়ে যাবতীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করতে পারেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা। আমার কোন কিছু করার নেই। আমাকে তদন্ত করতে বলা হয়েছে আমি তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিল করেছি।

এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সীমা শারমিন বলেন, সময়ের অভাবে আমি তদন্ত প্রতিবেদন দেখার সময় পাইনি। আমি প্রতিবেদন দেখে পৌরসভা ও থানা পুলিশকে দ্রুত এ বিষয়ে ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য লিখিত ভাবে নির্দেশনা প্রদান করব। পরবর্তি ব্যবস্থা গ্রহণের দায়িত্ব তাদের।

news24bd.tv আহমেদ

পরবর্তী খবর

পটিয়ায় ‘হুইপ পোষ্যে’র টিকাবাণিজ্যে তোলপাড়

রিয়াজ হায়দার চৌধুরী, চট্টগ্রাম

পটিয়ায় ‘হুইপ পোষ্যে’র টিকাবাণিজ্যে তোলপাড়

রবিউল হুসাইন

চট্টগ্রামের পটিয়ায় হুইপ সামশুল হক চৌধুরীর সমর্থিত এক ছাত্রলীগ নেতা দাবিদারের 'টিকাবাণিজ্য' নিয়ে তোলপাড় শুরু হয়েছে। রেজিস্ট্রেশনবিহীন এবং বিধিবহির্ভূতভাবে অর্থের বিনিময়ে ৭০০ টিকা প্রদানের অভিযোগ উঠেছে। খোদ হুইপ সামশুল হক চৌধুরীর নিজের ইউনিয়ন শোভনদন্ডীতে ঘটেছে এই ঘটনা। 

হুইপ সামশুল হক চৌধুরীর প্রভাবে চাকরি পাওয়া মেডিকেল টেকনোলজিস্ট (ইপিআই) রবিউল হুসাইনের বিরুদ্ধে উঠেছে এই অভিযোগ। এই অভিযোগের প্রেক্ষিতে শনিবার বিকালে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছেন চট্টগ্রামের বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক ডা. হাসান শাহরিয়ার কবির।‌

এ ব্যাপারে বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালককে মুঠোফোনে পাওয়া না গেলেও চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন ডা. সেখ ফজলে রাব্বী এই তদন্ত কমিটি গঠনের কথা স্বীকার করেছেন।
 
তিনি জানান, তিন সদস্যের গঠিত এই তদন্ত কমিটিকে দুই দিনের সময় দেয়া হয়েছে। 

এদিকে পটিয়া স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. সব্যসাচী নাথ এক প্রশ্নের জবাবে বলেন, মেডিকেল টেকনোলজিস্ট (ইপিআই) রবিউল হুসাইনের বিরুদ্ধে অনুমোদন ছাড়া টিকা প্রদান, অর্থ আদায়সহ নানা অভিযোগ পাওয়া গেছে। বিষয়টি ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে। ‌

অন্যদিকে, অভিযুক্ত রবিউলকে মুঠোফোনে তার বক্তব্য জানতে কয়েক দফা যোগাযোগ করেও পাওয়া যায়নি। 

টিকা নিয়ে রবিউল নিজেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে হুইপ সামশুল হক চৌধুরীর সাথে ঘনিষ্ঠতার ছবি প্রকাশ করেছেন। নিজেকে এলাকায় বিভিন্ন সময়ে হুইপপন্থী ছাত্রলীগের 'সভাপতি' দাবি করছেন বলেও অভিযোগ উঠেছে।

বৃহস্পতিবার থেকেই এই মেডিকেল টেকনোলজিস্টের বিরুদ্ধে গুরুতর অভিযোগ উঠলেও শনিবার পর্যন্ত তার তত্ত্বাবধানে টিকা দেয়া হয় হুইপ সামশুলের নিজের ইউনিয়ন শোভনদন্ডীতে। 

দেশজুড়ে যখন টিকা নিয়ে উৎকণ্ঠা, তখন সরকারি বিধি বিধানের তোয়াক্কা না করে ব্যক্তিগত উদ্যোগে অর্থ নিয়ে এমন টিকা প্রদানের ঘটনায় এলাকাবাসীর মনে ক্ষোভ দানা বাঁধছে।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

গাজীপুরে বন্দুকযুদ্ধে ডাকাত সর্দার নিহত

অনলাইন ডেস্ক

গাজীপুরে বন্দুকযুদ্ধে ডাকাত সর্দার নিহত

গাজীপুরের র‌্যাবের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে ডাকাত সর্দার পারভেজ আহমেদ নিহত হয়েছে। এসময় র‌্যাবের দুই সদস্য আহত হয়েছেন।

শনিবার (৩১ জুলাই) রাতে উপজেলার সাতচুঙ্গিপাড় এলাকায় বন্দুকযুদ্ধের ঘটনাটি ঘটে। এসময় ডাকাত সর্দার পারভেজের কাছ থেকে একটি বিদেশি পিস্তল ও ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। মরদেহটির ময়নাতদন্তের জন্য শহীদ তাজ উদ্দিন আহমেদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।

আরও পড়ুন:

বাড়ানো হয়েছে লঞ্চ চলাচলের সময়

এবার পর্নোগ্রাফি শুটিংয়ের অভিযোগে অভিনেত্রী গ্রেপ্তার

সাকিবের সামনে রেকর্ড গড়ার হাতছানি, যেখানে তিনিই হবেন প্রথম

চিত্রনায়িকা একার বিরুদ্ধে হাতিরঝিল থানায় দুই মামলা


র‌্যাব-১ এর গণমাধ্যম শাখার সহকারি পরিচালক মোশফিকুল রহিম তুষার জানান, গতকাল রাতে উপজেলার সাতচুঙ্গিপাড় এলাকায় মাদকের অভিযান পরিচালনা করার সময় র‌্যাব সদস্যদের লক্ষ্যে গুলি ছুড়ে পারভেজ ও তার দুই সহযোগী। পরে র‌্যাব ও পাল্টা গুলি ছুড়লে গুলিবিদ্ধ হয়ে ঘটনাস্থলে পারভেজের মৃত্যু হয়। বাকি দুজন পালিয়ে যায়। এসময় দুইজন র‌্যাব সদস্য আহত হয়েছেন। 

তিনি আরও জানান, নিহত পারভেজের বিরুদ্ধে ডাকাতি, মাদক, হত্যাচেষ্টাসহ ২৩টি মামলা রয়েছে।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

রাজধানীতে সড়ক দুর্ঘটনায় ট্রাফিক পুলিশের মৃত্যু

অনলাইন ডেস্ক

রাজধানীতে সড়ক দুর্ঘটনায় ট্রাফিক পুলিশের মৃত্যু

রাজধানীর শের-ই-বাংলা নগরে মাইক্রোবাসের ধাক্কায় এক ট্রাফিক পুলিশ কনস্টেবল নিহত হয়েছেন। রোববার (১ আগস্ট) সকাল ১১টার দিকে শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সামনে এই দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত হেলাল (৫০) ট্রাফিক তেজাগাঁও বিভাগের মোহাম্মদপুর জোনে কর্মরত ছিলেন। তার বাড়ি গাজিপুরের কালিয়াকৈর উপজেলায়।

গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে প্রথমে সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখান থেকে পরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক বেলা পৌনে ১২টায় তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

ঢামেক হাসপাতাল পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ (পরিদর্শক) মো. বাচ্চু মিয়া বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

আরও পড়ুন:

বাংলাদেশসহ চার দেশে দুবাইগামী ফ্লাইট বন্ধ ৭ আগস্ট পর্যন্ত

চীন ও অস্ট্রেলিয়ায় করোনা পরিস্থিতি নিয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার হুশিয়ারি

হেলেনাকে সম্মানের সঙ্গে ছাড়তে বললেন সেফুদা

সেনাবাহিনীতে বিভিন্ন বেসামরিক পদে ছয় শতাধিক নিয়োগ


প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, সকালে সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালের সামনের দায়িত্ব পালন করছিলেন হেলাল। বেলা ১১ টার দিকে হাসপাতালের সামনে একটি মাইক্রোবাসকে থামার সিগনাল দিলে সেটি প্রথমে হালকা থামলেও পরক্ষণেই আবার হেলালকে ধাক্কা দেয়। পরে তাকে উদ্ধার করে পাশ্ববর্তী শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল নিয়ে যাওয়া হয়।

news24bd.tv/ নকিব

পরবর্তী খবর

ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে গাড়ির চাপ বেড়েছে

মোহাম্মদ আল-আমীন, গাজীপুর

ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে গাড়ির চাপ বেড়েছে

গাজীপুরের চন্দ্রায় ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে গাড়ির চাপ বৃদ্ধি পেয়েছে। রবিবার সকাল থেকে গাড়ির চাপ বৃদ্ধি ও যাত্রীদের চাপ অনেক বেশি লক্ষ্য করা যায়।

এতে চরম দুর্ভোগে পড়েছে গ্রামের বাড়ি থেকে কর্মস্থলের ফেরা সাধারন যাত্রীরা।

অন্যদিকে, নিয়ম ও স্বাস্থ্য বিধি না মানায় করোনাভাইরাসের সংক্রমণ প্রতি নিয়ত বাড়ছে। কঠোর লকডাউনের দশম দিনে গাজীপুরের কালিয়াকৈর চন্দ্রায় সকাল থেকে ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে যাত্রীদের উপচে পড়া ভীড় লক্ষ্য করা যায়।

আরও পড়ুন


৮ আগস্ট থেকে ১৮ বছর বয়সীরাও টিকা নিতে পারবেন

হেলেনা জাহাঙ্গীর আওয়ামী লীগ 'নেত্রী' ছিলেন না

বিরিয়ানিতে চকোলেটের বিস্ময়কর ভিডিও নেটমাধ্যমে ভাইরাল

স্বামীর পর্নকাণ্ড: এবার শিল্পা শেঠির সমর্থনে বলি-অভিনেত্রী

দূর পাল্লার গণপরিবহন কম থাকায় অটো রিক্সা, ভ্যানগাড়ি, সিএনজি ও ভাড়ায় চালিত মোটরসাইকেল যোগে অতিরিক্ত ভাড়া দিয়ে, গাজীপুর ও ঢাকা প্রবেশ করছেন কর্মস্থলে যোগ দেয়া, সাধারন যাত্রীরা। এতে চরম ভোগান্তিতে পড়তে হচ্ছে তাদের। 

news24bd.tv রিমু  

 

 

 

পরবর্তী খবর

নোয়াখালীতে চিকিৎসার অভাবে বৃদ্ধার মৃত্যুর অভিযোগ, তদন্ত কমিটি গঠন

নোয়াখালী প্রতিনিধি

নোয়াখালীতে চিকিৎসার অভাবে বৃদ্ধার মৃত্যুর অভিযোগ, তদন্ত কমিটি গঠন

নোয়াখালীর সেনবাগে চিকিৎসার অভাবে মনোয়ারা বেগম (৭০) নামে এক বৃদ্ধার মৃত্যুর অভিযোগ পাওয়া গেছে। গতকাল শুক্রবার রাতে নোয়াখালীর সেনবাগ সরকারি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এ ঘটনা ঘটে।

নিহতের ছেলে মো. দেলোয়ার ওরফে স্বপন (৩৫) এ অভিযোগ করেন। তিনি জানান, শুক্রবার দিবাগত রাত সাড়ে বারোটায় শ্বাসকষ্ট ও হার্টের সমস্যা নিয়ে তার বৃদ্ধা মাকে সেনবাগ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসা হয়। এ সময় জরুরি বিভাগ ও হাসপাতালের ভেতরে প্রবেশ করা গেটে তালা ঝুলতে দেখে কর্তব্যরতদের ডাকাডাকি শুরু করেন তিনি।

এ সময় হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জরুরি সেবা না দিয়ে বেসরকারি ক্লিনিক থেকে ইসিজি করে নিয়ে আসতে বলেন। ততক্ষণে তার মায়ের শ্বাসকষ্ট বেড়ে গেলে সেনবাগ প্রেসক্লাব অক্সিজেন ব্যাংকের হটলাইনে ফোন করলে ওই বৃদ্ধাকে রাত পৌনে একটার সময় অক্সিজেন সাপোর্ট দেয়া হয়।

পরে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে স্বপন তার মাকে নিয়ে শহরের সেন্ট্রাল হসপিটালে নিয়ে আসেন। এখানে ডাক্তার না থাকায় ইসিজিসহ প্রয়োজনীয় সেবা না পেয়ে রাত একটায় আবারও সরকারি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চত্বরে নিয়ে আসেন।

তখন হাসপাতালের জরুরি বিভাগে না নিয়ে একজন মহিলা চিকিৎসক সিএনজিতে থাকা বৃদ্ধাকে দেখে মৃত ঘোষণা করেন। চরম অবহেলা ও চিকিৎসার অভাবে বৃদ্ধার মৃত্যুর অভিযোগ এনে কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন তার সন্তান স্বপনসহ উপস্থিত তার স্বজনরা।

এ ব্যাপারে কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. জাহানারা আরজু জানান, রাত একটায় খবর পেয়ে বৃদ্ধাকে দেখেছি তার কার্ডিয়াক ও শ্বাসকষ্ট ছিলো। মুহূর্তের মধ্যে তিনি মারা যান।

আরও পড়ুন:

বাংলাদেশসহ চার দেশে দুবাইগামী ফ্লাইট বন্ধ ৭ আগস্ট পর্যন্ত

চীন ও অস্ট্রেলিয়ায় করোনা পরিস্থিতি নিয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার হুশিয়ারি

হেলেনাকে সম্মানের সঙ্গে ছাড়তে বললেন সেফুদা

সেনাবাহিনীতে বিভিন্ন বেসামরিক পদে ছয় শতাধিক নিয়োগ


আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. রফিকুল ইসলাম জানান, করোনাকালীন সময়ে জরুরি বিভাগের একটি গেটে তালা ছিলো। কর্তব্যরত চিকিৎসক খবর পেয়ে রোগীকে দেখতে আসেন।

নোয়াখালীর সিভিল সার্জন ডা. মাসুম ইফতেখার জানান, সেনবাগ সরকারী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে অনাকাঙ্খিত ঘটনায় সোনাইমুড়ীর ইউএইচএফপিও ডা. মইনুল ইসলামকে প্রধান করে ৩ সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। 

news24bd.tv/ নকিব

পরবর্তী খবর