দক্ষিণ-পশ্চিম সাইবেরিয়ান অঞ্চলে বিমান বিধ্বস্তে নিহত ৭

অনলাইন ডেস্ক

দক্ষিণ-পশ্চিম সাইবেরিয়ান অঞ্চলে বিমান বিধ্বস্তে নিহত ৭

রাশিয়ার দক্ষিণ-পশ্চিম সাইবেরিয়ান অঞ্চলের কেমেরোভো এলাকায় দুই ইঞ্জিন বিশিষ্ট এল-৪১০ মডেলের একটি বিমান বিধ্বস্ত হয়ে ৭ জন প্যারাসুটারের মৃত্যু হয়েছে। 

এ ঘটনায় ডজনখানেকের বেশি আহত হয়েছেন। তবে এদের মধ্যে চারজনের অবস্থা খুবই গুরুতর। বার্তা সংস্থা তাস’র বরাত দিয়ে শনিবার (১৯ জুন) এ তথ্য জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, একটি বনের ভেতরে বিমানটি বিধ্বস্ত হয়। দুর্ঘটনার আগে বিমানটির ক্রু ইঞ্জিন বিকল হয়ে যাওয়ার সংকেত পাঠিয়েছিলেন।

রাশিয়ান সিভিল এভিয়েশন এজেন্সির সাইবেরীয় শাখা রোসাভিয়াৎসা জানিয়েছেন, ঘটনার পর তল্লাশি ও উদ্ধার অভিযান চলছে। তবে এ বিষয়ে বিস্তারিত কোনো তথ্য জানায়নি তারা। সূত্র : রয়টার্স, তাস

আরও পড়ুন:


দুর্লভ আবাসিক পাখি ‘জল ময়ূর’

কাপুরুষোচিত হামলা চালিয়ে ইসরাইলি সেনাদের মনোবল চাঙ্গা হবে না: হামাস

বিবস্ত্র করা ছবি তুলে ফাঁদে ফেলে প্রবাসীর স্ত্রী, মামলায় আ.লীগ নেতাও আসামি

‘নিখিলকে আগেই বলেছিলাম, নুসরাত তোমাকে ঠকাবে’


news24bd.tv / কামরুল 

পরবর্তী খবর

ফিলিস্তিনে উচ্ছেদ বিরোধী সমাবেশে ইসরাইলি সেনাদের ধরপাকড়

অনলাইন ডেস্ক

ফিলিস্তিনে উচ্ছেদ বিরোধী সমাবেশে ইসরাইলি সেনাদের ধরপাকড়

ইহুদিবাদী ইসরাইলের বর্বর সেনারা ফিলিস্তিনের অধিকৃত আল-কুদস জেরুজালেম শহরে শেখ জাররাহ শরণার্থী শিবির থেকে ফিলিস্তিনি মুসলমানদের উচ্ছেদ অভিযানের বিরুদ্ধে আয়োজিত একটি সমাবেশে হামলা ও ধরপাকড় অভিযান চালিয়েছে। শেখ জাররাহ শরণার্থী শিবির থেকে ফিলিস্তিনি নাগরিকদের বহিষ্কার করার চেষ্টা করছে ইসরাইলি কর্তৃপক্ষ।

ফিলিস্তিনের শেহাব নিউজ এজেন্সি প্রকাশিত ফুটেজে দেখা যায়, শেখ জাররাহ শরণার্থী শিবিরের সমস্ত এলাকায় ইহুদিবাদী সেনারা দাপিয়ে বেড়াচ্ছে এবং একজন বিক্ষোভকারীকে জোর করে মাটিতে ফেলে চেপে ধরেছে। ফিলিস্তিনের অন্য কয়েকটি গণমাধ্যম যে ছবি প্রকাশ করেছে তাতে দেখা যায়, বিক্ষোভে অংশ নেয়া লোকজনের ওপর ইসরাইলি সেনারা ব্যাপক অস্ত্রেশস্ত্রে সজ্জিত হয়ে হামলা চালাচ্ছে।

আরও পড়ুন


৪১তম বিসিএস প্রিলির ফল প্রকাশ হতে পারে বিকেলে

বাড়ানো হয়েছে লঞ্চ চলাচলের সময়

এবার পর্নোগ্রাফি শুটিংয়ের অভিযোগে অভিনেত্রী গ্রেপ্তার

সাকিবের সামনে রেকর্ড গড়ার হাতছানি, যেখানে তিনিই হবেন প্রথম


এদিকে, ফিলিস্তিনের মা'আন বার্তা সংস্থা জানিয়েছে ইহুদিবাদী সেনারা শরণার্থী শিবিরের প্রবেশপথ ব্যারিকেড দিয়ে আটকে দেয়। শরণার্থী শিবিরের বাসিন্দাদের ছাড়া অন্য কাউকে সেখানে তারা প্রবেশ করতে দেয় নি।

বার্তা সংস্থাটি বলছে, ইসরাইলি সেনারা বিক্ষোভকারীদের ওপর লাঠিচার্জ করে এবং তাদের বিরুদ্ধে জলকামান ব্যবহার করা হয়। সাংবাদিকরাও এই হামলা থেকে রেহাই পান নি।

ইহুদিবাদী সেনাদের বর্বর অভিযানের সময় আল-কুদস শহরের কয়েকজন বাসিন্দাকে আটক এবং তাদের ওপর তল্লাশি চালানো হয়। সূত্র: পার্সটুডে।

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

ইরাকের গ্রামঞ্চল থেকে দায়েশকে নিমূলে হাশদ আশ-শাবি’র অভিযান

অনলাইন ডেস্ক

ইরাকের গ্রামঞ্চল থেকে দায়েশকে নিমূলে হাশদ আশ-শাবি’র অভিযান

ইরাকের পূর্বাঞ্চলীয় দিয়ালা প্রদেশের গ্রামাঞ্চল থেকে তাকফিরি সন্ত্রাসবাদী গোষ্ঠীর দায়েশের বিরুদ্ধে নির্মূল অভিযান শুরু করেছে স্বেচ্ছাসেবী বাহিনী হাশদ আশ-শাবি। দিয়ালা প্রদেশের সঙ্গে প্রতিবেশী ইরানের সীমান্ত রয়েছে।

অভিযানের কমান্ডার তালিব অল-মুসাভি এক বিবৃতিতে বলেছেন, তার বাহিনীর যোদ্ধারা এরইমধ্যে দিয়ালা প্রদেশের রাজধানী বাকুবার উত্তরাঞ্চলে পৌঁছে গেছে। ইরাকের রাজধানী বাগদাদ থেকে বাকুবা শহরের দূরত্ব ৫০ কিলোমিটার।

তিনি বলেন, হামরিন উপত্যকায় একটি এলাকা থেকে এরইমধ্যে হাশদ আশ-শাবির যোদ্ধারা অভিযান চালিয়ে দায়েশকে হটিয়ে দিয়েছে। ইরাকি নিরাপত্তা বাহিনী এবং স্থানীয় লোকজনের ওপর হামলার প্রস্তুতি নিচ্ছিল দায়েশ সন্ত্রাসীরা। তিনি জানান, অভিযান সফলভাবে সম্পন্ন করেছে তার বাহিনী।

আরও পড়ুন


বাড়ানো হয়েছে লঞ্চ চলাচলের সময়

এবার পর্নোগ্রাফি শুটিংয়ের অভিযোগে অভিনেত্রী গ্রেপ্তার

সাকিবের সামনে রেকর্ড গড়ার হাতছানি, যেখানে তিনিই হবেন প্রথম

চিত্রনায়িকা একার বিরুদ্ধে হাতিরঝিল থানায় দুই মামলা


এদিকে, ইরাকের মধ্যাঞ্চলীয় সালাহউদ্দিন প্রদেশের একটি এলাকায় দায়েশ সন্ত্রাসীদের অনুপ্রবেশ ব্যর্থ করেছে হাশদ আশ-শাবি। অভিযানের পর ওই এলাকায় স্থিতিশীলতা ও নিরাপত্তা প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। এর একদিন আগে সালাহউদ্দিন প্রদেশের বালাদ জেলায় একটি দাফন অনুষ্ঠানে দায়েশ সন্ত্রাসীরা হামলা চালায়। এতে অন্তত পাঁচজন নিহত এবং ২০ জন আহত হয়েছে। সূত্র: পার্সটুডে।

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

বাংলাদেশসহ ছয় দেশের জন্য কাতারে কোয়ারেন্টাইনের নতুন নিয়ম

অনলাইন ডেস্ক

বাংলাদেশসহ ছয় দেশের জন্য কাতারে কোয়ারেন্টাইনের নতুন নিয়ম

বাংলাদেশসহ ছয় দেশের অভিবাসীদের জন্য কাতারে কোয়ারেন্টাইন নীতি পরিবর্তন করা হয়েছে। আগামী সোমবার (২ আগস্ট) থেকে বাংলাদেশ, ভারত, নেপাল, পাকিস্তান, ফিলিপাইন ও শ্রীলঙ্কার অভিবাসীদের জন্য এই নতুন নিয়ম কার্যকর হবে। দোহার বাংলাদেশ দূতাবাস শনিবার (৩১ জুলাই) তাদের ভেরিফায়েড ফেসবুকে এ তথ্য জানিয়েছে।

দূতাবাস জানায়, কাতারে আগমনের ক্ষেত্রে কোয়ারেন্টিন নীতির পরিবর্তন করা হয়েছে। আগামী সোমবার (২ আগস্ট) দুপুর ১২টার পরে দোহায় আগত যাত্রীদের কাতারে অবস্থানের সময় দুই ডোজ টিকা নিয়েছেন এবং ১৪ দিন পার হয়েছে কিংবা কাতারে করোনায় আক্রান্ত হয়ে সুস্থ হয়েছেন এমন ব্যক্তিদের ক্ষেত্রে দুই দিনের হোটেল কোয়ারেন্টিন বাধ্যতামূলক করা হয়েছে।

এছাড়া অন্যান্য সব ক্ষেত্রে লাল তালিকাভুক্ত যেকোনো দেশ থেকে কাতার যাওয়া ব্যক্তিদের ক্ষেত্রে ১০ দিনের হোটেল কোয়ারেন্টিন বাধ্যতামূলক করা হয়েছে।

আরও পড়ুন:

বাংলাদেশসহ চার দেশে দুবাইগামী ফ্লাইট বন্ধ ৭ আগস্ট পর্যন্ত

চীন ও অস্ট্রেলিয়ায় করোনা পরিস্থিতি নিয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার হুশিয়ারি

হেলেনাকে সম্মানের সঙ্গে ছাড়তে বললেন সেফুদা

সেনাবাহিনীতে বিভিন্ন বেসামরিক পদে ছয় শতাধিক নিয়োগ


দূতাবাস আরও জানায়, কাতার কর্তৃপক্ষ বিভিন্ন সময় তাদের নীতিমালা পরিবর্তন করে থাকে। কাতারের সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের ওয়েবসাইটগুলো নিয়মিত ভিজিট করে আপডেট থাকার জন্য অনুরোধ জানায় দূতাবাস।

news24bd.tv/ নকিব

পরবর্তী খবর

বিশ্বে করোনায় মৃত্যু ছাড়ালো ৪২ লাখ

অনলাইন ডেস্ক

বিশ্বে করোনায় মৃত্যু ছাড়ালো ৪২ লাখ

করোনাভাইরাসের নতুন ভিন্ন ভিন্ন ভ্যারিয়েন্টের কাছে ধরাশায়ী বিশ্বে করোনা সামলে ফেলা দেশগুলোও। বিশ্বব্যাপী টিকা কার্যক্রম চললেও থামছে না সংক্রমণের গতি। এখন পর্যন্ত করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে বিশ্বে মৃত্যু ৪২ লাখ ৩২ হাজার ছাড়িয়েছে। আর আক্রান্তের সংখ্যা ছাড়িয়েছে ১৯ কোটি ৮৫ লাখ।

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও প্রাণহানির পরিসংখ্যান রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডওমিটারের তথ্যানুযায়ী, রবিবার (১ আগস্ট) সকাল পর্যন্ত পূর্ববর্তী ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে করোনায় মারা গেছেন আরও ৮ হাজার ৭৭২ জন এবং আক্রান্ত হয়েছেন ৫ লাখ ৩০ হাজার ৮৭২ জন।

এ নিয়ে বিশ্বে এখন পর্যন্ত মোট করোনায় মৃত্যু ৪২ লাখ ৩২ হাজার ৮৯২ এবং আক্রান্ত হয়েছেন ১৯ কোটি ৮৫ লাখ ৪৭ হাজার ২৬ জন। এদের মধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১৭ কোটি ৯২ লাখ ৮৫ হাজার ১১৮ জন।
করোনায় এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ ও মৃত্যু হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে। তালিকায় শীর্ষে থাকা দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন ৩ কোটি ৫৭ লাখ ৪৫ হাজার ২৪ জন। মৃত্যু হয়েছে ৬ লাখ ২৯ হাজার ৩১৫ জনের।

আরও পড়ুন:

বাংলাদেশসহ চার দেশে দুবাইগামী ফ্লাইট বন্ধ ৭ আগস্ট পর্যন্ত

চীন ও অস্ট্রেলিয়ায় করোনা পরিস্থিতি নিয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার হুশিয়ারি

হেলেনাকে সম্মানের সঙ্গে ছাড়তে বললেন সেফুদা

সেনাবাহিনীতে বিভিন্ন বেসামরিক পদে ছয় শতাধিক নিয়োগ


আক্রান্তে দ্বিতীয় ও মৃত্যুতে তৃতীয় অবস্থানে থাকা ভারতে এখন পর্যন্ত মোট সংক্রমিত হয়েছেন ৩ কোটি ১৬ লাখ ৫৪ হাজার ৫৮৪ জন এবং এখন পর্যন্ত মোট মৃত্যু হয়েছে ৪ লাখ ২৪ হাজার ৩৮৪ জনের।

আক্রান্তে তৃতীয় এবং মৃত্যুতে দ্বিতীয় অবস্থানে থাকা ব্রাজিলে এখন পর্যন্ত করোনায় ১ কোটি ৯৯ লাখ ১৭ হাজার ৮৫৫ জন সংক্রমিত হয়েছেন। মৃত্যু হয়েছে ৫ লাখ ৫৬ হাজার ৪৩৭ জনের।

news24bd.tv/ নকিব

পরবর্তী খবর

ইরানের সাথে উত্তেজনা বাড়াতে চায় না যুক্তরাষ্ট্র: মার্কিন রাষ্ট্রদূত

অনলাইন ডেস্ক

ইরানের সাথে উত্তেজনা বাড়াতে চায় না যুক্তরাষ্ট্র: মার্কিন রাষ্ট্রদূত

মধ্যপ্রাচ্য অঞ্চলে বিশেষ করে ইরাকে ইরানের সঙ্গে উত্তেজনা বাড়ানোর কোনা অভিপ্রায় যুক্তরাষ্ট্রের নেই বলে মন্তব্য করেছেন বাগগাদে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত ম্যাথিউ টুয়েলার। তিনি ইরাকের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা কাসেম আল-আ’রাজির সঙ্গে এক সাক্ষাতে একথা জানান বলে জানিয়েছে ইরাকি বার্তা সংস্থা ‘নাস নিউজ’।

সাক্ষাতে মার্কিন পদস্থ সেনা কর্মকর্তা জেনারেল কালফের্ট উপস্থিত ছিলেন। ইরাকে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত বলেন, ইরানের সঙ্গে স্বাভাবিক কূটনৈতিক সম্পর্ক প্রতিষ্ঠার যেকোনো প্রচেষ্টাকে স্বাগত জানায় তার দেশ। এছাড়া, ইরানের সঙ্গে উত্তেজনা বাড়ানোর কোনো ইচ্ছে ওয়াশিংটনের নেই।

ম্যাথিউ টুয়েলার এর আগে গত মঙ্গলবার আল-ইরাকিয়া টিভি চ্যানেলকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে বলেছিলেন, আমরা চাই ইরানের সঙ্গে ইরাকের সম্পর্ক স্বাভাবিক হোক এবং আমরা এই দুই দেশের মধ্যে কোনো জটিলতা সৃষ্টি করতে চাই না।

মার্কিন রাষ্ট্রদূত এমন সময় এসব বক্তব্য দিলেন যখন গত সোমবার ইরাকের প্রধানমন্ত্রী মুস্তফা আল-কাজেমি ওয়াশিংটনে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন। ওই সাক্ষাতে ইরাকে থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহারসহ দ্বিপক্ষীয় স্বার্থ সংশ্লিষ্ট নানা বিষয়ে আলোচনা হয়েছে।

আরও পড়ুন:

বাংলাদেশসহ চার দেশে দুবাইগামী ফ্লাইট বন্ধ ৭ আগস্ট পর্যন্ত

চীন ও অস্ট্রেলিয়ায় করোনা পরিস্থিতি নিয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার হুশিয়ারি

হেলেনাকে সম্মানের সঙ্গে ছাড়তে বললেন সেফুদা

সেনাবাহিনীতে বিভিন্ন বেসামরিক পদে ছয় শতাধিক নিয়োগ


ইরান দীর্ঘদিন ধরে বলে আসছে, ইরাকসহ মধ্যপ্রাচ্যের নিরাপত্তা রক্ষা করার জন্য এ অঞ্চলে মার্কিন সামরিক উপস্থিতির কোনো প্রয়োজন নেই। পারস্য উপসাগরীয় অঞ্চল থেকে মার্কিন সেনাসহ সকল বিদেশি সেনা প্রত্যাহার করারও আহ্বান জানিয়েছে দেশটি।

news24bd.tv/ নকিব

পরবর্তী খবর